Logo
আজঃ মঙ্গলবার ১৬ এপ্রিল ২০২৪
শিরোনাম

রাজনীতির ঊর্ধ্বে থেকে পেশাগত দায়িত্ব পালন করুন: রাষ্ট্রপতি

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০২ মার্চ 2০২3 | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১৬ এপ্রিল ২০২৪ | ১৭৫জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক: রাজনীতির ঊর্ধ্বে থেকে পেশাগত দায়িত্ব পালনে আইনজীবীদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ। আজ বৃহস্পতিবার বিকেলে কিশোরগঞ্জে জেলা আইনজীবী সমিতির সদস্যদের সাথে শুভেচ্ছা বিনিময়কালে রাষ্ট্রপতি এই আহ্বান জানান।

আইন একটি মহৎ পেশা উল্লেখ করে রাষ্ট্রপতি বলেন, আইনি সেবা নিতে এসে সাধারণ মানুষ যেন আইনজীবীদের আচরণে কষ্ট না পায় সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে।

রাষ্ট্রপতি আরও বলেন, নিজেদের  মধ্যে রাজনৈতিক মতবিরোধ থাকতে পারে তবে দায়িত্ব পালনকালে রাজনীতির ঊর্ধ্বে আইনজীবীদের পেশাগত দায়িত্ব পালন করতে হবে। তিনি আশা করেন কিশোরগঞ্জ জেলা আইনজীবী সমিতির ভাবমূর্তি উজ্জ্বল করতে আইনজীবীরা দলমত নির্বিশেষে সবাই একসঙ্গে কাজ করবেন।

এর আগে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ কিশোরগঞ্জে নবনির্মিত চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে স্থাপিত বঙ্গবন্ধু কর্নার পরিদর্শন করেন। রাষ্ট্রপতি এ সময় আদালত চত্বরে একটি গাছের চারা রোপণ করেন। পরে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ বিচারকদের সঙ্গে মতবিনিময় করেন।

এ সময় সিনিয়র জেলা ও দায়রা জজ সায়েদুর রহমান খান কিশোরগঞ্জের বিচার বিভাগের সার্বিক কার্যক্রম সম্পর্কে রাষ্ট্রপতিকে অবহিত করেন।

জনগণ যেন দ্রুত ন্যায়বিচার পায় তা নিশ্চিত করতে বিচারকদের আরও আন্তরিকতার সঙ্গে দায়িত্ব পালনের আহ্বান জানান রাষ্ট্রপতি।

এ সময় জনগণের দুর্ভোগ লাঘবে বিচারকগণ কিশোরগঞ্জে একটি বিদ্যুৎ আদালত স্থাপনের দাবি জানান।


আরও খবর



পেঁয়াজের বাজার নিয়ন্ত্রণে ভোক্তা মহাপরিচালকের কড়া হুঁশিয়ারি

প্রকাশিত:সোমবার ২৫ মার্চ ২০২৪ | হালনাগাদ:রবিবার ১৪ এপ্রিল ২০২৪ | ১০৬জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:আবারও অস্থির হয়ে উঠছে দেশের পেঁয়াজের বাজার। তবে কৃত্রিম সংকট সৃষ্টি করে দাম বৃদ্ধির এ প্রবণতা থেকে ব্যবসায়ীরা না বের হলে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেছেন,জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের মহাপরিচালক এ এইচ এম সফিকুজ্জামান।

সোমবার (২৫ মার্চ) কারওয়ান বাজারের টিসিবি ভবন চত্বরে ভোক্তা অধিকারের পৃষ্ঠপোশকতায় বাংলাদেশ এসএমই ফোরামের উদ্যোগে ন্যায্য মূল্যে তরমুজ বিক্রি কার্যক্রমের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন।

এ এইচ এম সফিকুজ্জামান বলেন, ভরা মৌসুমে পেঁয়াজের বাজার অস্থির হওয়ার কোনো যৌক্তিকতা নেই। শিগগিরই ভারত থেকে ৫০ হাজার টন পেঁয়াজ দেশে আসছে। আমদানিকৃত এসব পেঁয়াজ ট্রেডিং কর্পোরেশন অব বাংলাদেশের (টিসিবি) মাধ্যমে বিক্রি হবে। ডিজি বলেন, কৃষক তরমুজ ১০০ টাকা বিক্রি করে। সেই তরমুজ ঢাকায় কিনতে হয় ৮০০ টাকায়। যেটি যুক্তিসঙ্গত নয়। যারা এখন বেশি দামে বিক্রি করছে ট্রাক সেলের কার্যক্রম দেখে তারাও শিগগিরই কম দামে বিক্রি করবে। উৎপাদক ও ভোক্তার মাঝে কোনো রকম গ্যাপ থাকবে না।

তিনি আরও বলেন, পথে চাঁদাবাজিসহ নানাবিধ সমস্যার কারণে তরমুজ আনতে ট্রাক ভাড়া ২০ হাজার টাকা বেড়ে যায়। যে চক্র এসব কাজের সঙ্গে জড়িত তাদেরকে আইনের আওতায় আনা হবে।


আরও খবর



আর্থ-সামাজিক উন্নয়নে এডিবির আরও সহায়তা চান প্রধানমন্ত্রী

প্রকাশিত:রবিবার ৩১ মার্চ ২০২৪ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১৬ এপ্রিল ২০২৪ | ৯৩জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:জনগণের আর্থ-সামাজিক উন্নয়নে বাংলাদেশের প্রচেষ্টা ত্বরান্বিত করতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এশীয় উন্নয়ন ব্যাংকের (এডিবি) কাছে আরও জোরালো সমর্থন চেয়েছেন। এডিবির ভাইস প্রেসিডেন্ট (সেক্টর অ্যান্ড থিম) ফাতিমা ইয়াসমিন রোববার (৩১ মার্চ) গণভবনে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করতে গেলে তিনি এই সমর্থন কামনা করেন।

বৈঠকের পর প্রধানমন্ত্রীর বক্তৃতা লেখক মো. নজরুল ইসলাম সাংবাদিকদের জানান প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, ‘আমাদের মূল লক্ষ্য জনগণের আর্থ-সামাজিক উন্নয়ন ও অন্তর্ভুক্তিমূলক অগ্রগতি। কারণ সরকার গ্রামীণ জনগণের উন্নয়নকে বিশেষ অগ্রাধিকার দিচ্ছে।

এডিবি ভাইস প্রেসিডেন্টকে প্রধানমন্ত্রী বলেন, তার সরকার দেশের জনগণের ক্রয়ক্ষমতা বাড়ানোর দিকে মনোনিবেশ করেছে। কারণ এটি শিল্পায়ন প্রসারিত ও আরও কাজের সুযোগ তৈরি করতে সহায়তা করবে। শেখ হাসিনা জলবায়ু পরিবর্তন অভিযোজন, কৃষি, নদী খনন ও পুনরুদ্ধারের মতো খাতে এডিবির সহায়তা চেয়েছেন। তিনি এডিবির ভাইস প্রেসিডেন্টকে আরও জনকেন্দ্রিক প্রকল্প গ্রহণের আহ্বান জানান, যাতে করে বিপুল সংখ্যক মানুষ উপকৃত হতে পারে।

প্রধানমন্ত্রী ১৯৯৬-২০০১ সালে বেসরকারী খাতে বিভিন্ন শাখা খোলার জন্য তার সরকারের উদ্যোগের কথা উল্লেখ করেন, যাতে এটিকে এগিয়ে নিয়ে যায় এবং প্রাণবন্ত করে তোলে- যার ফলে কর্মসংস্থান সম্প্রসারিত হয়।

ফাতিমা ইয়াসমিন বলেন, বাংলাদেশ এডিবির অন্যতম শীর্ষ অগ্রাধিকারের দেশ এবং ২০০৯ থেকে ২০২৩ সাল পর্যন্ত বাংলাদেশে এডিবির সহায়তা পাঁচ গুণ বেড়ে ৩.৪ বিলিয়ন মার্কিন ডলারে উন্নীত হয়েছে।

তিনি প্রধানমন্ত্রীকে আরও বলেন, এডিবি নদী পুনরুদ্ধার, নদী ভিত্তিক পর্যটন, বিনোদন কেন্দ্র ও সেচের মতো প্রকল্প বাস্তবায়নে আগ্রহী। কারণ এটি জলবায়ু পরিবর্তন অভিযোজন, মানব ও সামাজিক উন্নয়ন, কারিগরি শিক্ষা ও স্বাস্থ্য খাতের প্রকল্পগুলোকে অগ্রাধিকার দিচ্ছে।

এ সময় প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব এম তোফাজ্জল হোসেন মিয়া ও অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগের সচিব মো. শাহরিয়ার কাদের সিদ্দিকী উপস্থিত ছিলেন।


আরও খবর



রাণীশংকৈলে আবাদ তাকিয়া মাদ্রাসার শিক্ষক ক্লাস বন্ধ রেখে পালন করলেন জন্মদিন

প্রকাশিত:শুক্রবার ০৫ এপ্রিল ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ১৫ এপ্রিল ২০২৪ | ৫৭জন দেখেছেন

Image
মাহাবুব আলম, রাণীশংকৈল(ঠাকুরগাঁও)প্রতিনিধি:ঠাকুরগাঁওয়ের রাণীশংকৈলে স্কুল চলা কালে,ক্লাস বন্ধু রেখে জন্মদিন পালন করলেন শিক্ষক এমন অভিযোগ উঠেছে। গত ৫ মার্চ উপজেলার পৌর শহরের আবাদ তাকিয়া মোহাম্মাদিয়া কামিল মাদ্রাসায় স্কুল চলা কালে ১০ শ্রেণির ৬ষ্ট ঘন্টায় ক্লাস রুমে জমকালো আয়োজনের ছাত্রীদেরকে নিয়ে এ জন্মদিন পালন করা হয়।অভিযুক্ত শিক্ষক ঐ মাদ্রাসার জীববিজ্ঞানের সহকারী শিক্ষক তারিকুল ইসলাম। তিনি ১৭ তম নিবন্ধনে নিয়োগ পেয়ে ঐ মাদ্রসায় যোগদান করেছেন। 

বিষয়টি এতদিন ধামা চাপা দেওয়ার চেষ্টা করলেও এ নিয়ে গত বৃহস্পতিবার সামাজিক যোগাযোগ ফেসবুক মাধ্যমে কয়েক সেকেন্ডের একটি ভিডিও ফুটেজ প্রকাশ হয়েছে। 

এ নিয়ে সামাজিক,স্থানীয় ব্যাক্তি বর্গ ও স্থানীয় সুশীল সমাজের লোকজন বলেন,একজন মাদ্রাসার শিক্ষক হয়ে কি-ভাবে জন্মদিন পালন করেন?তাও আবার স্কুল চলা কালে ক্লাস বন্ধ রেখে।এটি কোন মতোই কাম্য নয়।

এ বিষয় ঐ মাদ্রাসার নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক অনেক শিক্ষক অভিযোগ করে বলেন, সে নিবন্ধনে নিয়োগ পেয়ে ঐ মাদ্রসায় যোগদান করেছেন। 
এবং নিজেকে অনেক কিছু মনে করেন। আমরা যাঁরা সিনিয়র শিক্ষক রয়েছি তাঁদেরকে কোন তোরক্কা করে না। ক্লাস চলা কালে জন্মদিন পালন করেছেন? এমন প্রশ্নের জবাবে বলেন, এটি আইন বহিভূর্ত কাজ করেছে। এটি ঠিক না। বা এমনি করা ঠিক হয়নি তাঁর। 

এ বিষয়ে অভিযুক্ত শিক্ষকের সঙ্গে মুঠো ফোনে একাধিক বার যোগাযোগ করা হলে তাকে ফোনে পাওয়া যায়নি। 

এ প্রসঙ্গে মাদ্রাসার ভারপ্রাপ্ত সুপার আয়ুব আলী বলেন,সে ক্লাস চলা কালে জন্মদিন পালন করেছে আমি জানিনা। এটি করা ঠিক হয়নি। আমি কথা বলে দেখি। 


আরও খবর



ঈদে ঘরে বসে বাসের টিকিট কাটুন উপায়ে

প্রকাশিত:সোমবার ০১ এপ্রিল ২০২৪ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১৬ এপ্রিল ২০২৪ | ১২৮জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:সম্প্রতি, মোবাইল আর্থিক সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠান উপায় ঘরে বসেই অগ্রিম বাসের টিকিট বুক করার সুবিধার্থে ‘ঈদ যাত্রা’ শীর্ষক একটি ক্যাম্পেইন চালু করেছে।

ঈদের সময় মানুষ নিজ শহর বা গ্রামে ছুটে যায়। এই মৌসুমে দীর্ঘ লাইনে দাঁড়িয়ে টিকিট কেনার সময় বিভিন্ন রকম হেনস্তার শিকার হয় সাধারণ মানুষ। মানুষের এই ভোগান্তির সমাধান এবং ঈদ যাত্রাকে আরও আনন্দময় করে তুলতে উপায় নিয়ে এসেছে অ্যাপের মাধ্যমে ঝামেলাহীনভাবে বাসের টিকিট কেনার সুযোগ। সাথে থাকছে বিশেষ ছাড়।

এই ক্যাম্পেইনটি চলবে আগামী ৩ এপ্রিল পর্যন্ত। আগ্রহীরা নির্বাচিত কিছু রুটের (ঢাকা থেকে চট্টগ্রাম/খুলনা/রংপুর/রাজশাহী/বরিশাল) জন্য শ্যামলী এনআর ট্রাভেলসের (নন এ/সি) টিকিট কিনতে পারবেন সরাসরি উপায় অ্যাপের মাধ্যমে। টিকিট নিশ্চিত হওয়ার পর যাত্রীদের সাথে উপায় থেকে যোগাযোগ করে তাদের ভ্রমনের সময় ও বাস ছাড়ার স্থান (লোকেশন) সম্পর্কে অবহিত করা হবে।

টিকিট বুক করার এই অভিজ্ঞতাকে আরও আনন্দদায়ক করতে ২০ শতাংশ ছাড় দিচ্ছে উপায়। আর নয় অপেক্ষা, এক্ষুনি কিনে ফেলুন অগ্রিম টিকিট। এই ঈদে আপনার বাড়ি যাওয়ার অভিজ্ঞতা হবে আরও স্বাচ্ছন্দ্যদায়ক এবং নিরাপদ।


আরও খবর



প্রশাসনকে বৃদ্ধাঙ্গুল দেখিয়ে তিনবার গুড়ানো অবৈধ ইটভাটা পুনরায় চালু

প্রকাশিত:সোমবার ২৫ মার্চ ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ১৫ এপ্রিল ২০২৪ | ১১৯জন দেখেছেন

Image

সাগর আহম্মেদ,কালিয়াকৈর (গাজীপুর) প্রতিনিধি:গাজীপুরের কালিয়াকৈরে প্রশাসনকে বৃদ্ধাঙ্গুল দেখিয়ে তিন বার গুড়িয়ে দেয়া তিনটি অবৈধ ইটভাটা পুনরায় চালু করার অভিযোগ উঠেছে। ক্ষমতার দাপটে ছোট চিমনী নির্মাণ করে পরিবেশ দুষণ করে পুড়ানো হচ্ছে ইট। আর নষ্ট হচ্ছে ধানসহ বিভিন্ন মৌসুমী ফসল ও ফলমুল। তাহলে ওই অবৈধ ইটভাটা এভাবেই চলবে? এমন প্রশ্ন হতাশাগ্রস্থ কৃষকসহ স্থানীয়দের।

এলাকাবাসী ও ক্ষতিগ্রস্থ কৃষক সূত্রে জানা গেছে, গত ৪ ফেব্রুয়ারী কালিয়াকৈর উপজেলার দরবাড়িয়া এলাকায় অবৈধ ইটভাটায় ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করে উপজেলা প্রশাসন। ওই ভ্রাম্যমাণ আদালতের নেতৃত্ব দিয়েছিলেন সাবেক উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা হোসাইন মোহাম্মদ হাই জকী। অভিযান চালিয়ে ভাটার আংশিক সাইট ওয়াল ভেঙ্গে জে.আর.বি ইটভাটা ৪ লক্ষ টাকা, এস.বি স্টারকে ৪ লক্ষ টাকা এবং ন্যাশনাল ব্রিকসকে ২ লক্ষ টাকা জরিমানা করা হয়। অদৃশ্য কারণে চিমনী না ভেঙ্গে বৈশম্যে জরিমানায় ক্ষোভ প্রকাশ করেন স্থানীয়রা। তাদের অভিযোগ, সাবেক ওই ইউএনওর সঙ্গে যোগাযোগ করে ৩/৪ দিন পরেই এসব ইটভাটা আবার চালু করে ইটভাটার মালিকরা। এ বিষয়ে বিভিন্ন গণমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশ হলে টনক নড়ে উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের। ওই ইউএনও বদলি হলে অভিযানের ২৫ দিন গত ২৯ ফেব্রুয়ারী দুপুরে ওই তিনটি অবৈধ ইটভাটায় অভিযান চালিয়েছে পরিবেশ অধিদপ্তর। অবশেষে চিনমনীসহ অবৈধ তিনটি ইটভাটা গুড়িয়ে দেওয়া হয়। এসময় জে.আর.বি ইটভাটাকে দেড় লক্ষ টাকা, এস.বি স্টার ওরফে স্ট্রং বিকসকে ১ লক্ষ টাকা জরিমানা করা হয়েছে। এছাড়া কাউকে না পাওয়ায় ন্যাশনাল ব্রিকসকে জরিমানা করা যায়নি।

পরিবেশ অধিদপ্তরের ঢাকা সদর দপ্তরের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট (সিনিয়র সহকারী সচিব) কাজী তামজীদ আহমেদের নেতৃত্বে ওই অভিযানে উপস্থিত ছিলেন- গাজীপুর পরিবেশ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক নয়ন মিয়া, সহকারী পরিচালক মইনুল হক ও মমিন ভুইয়া, পরিদর্শক সঞ্জিত বিশ^াসসহ পরিবেশ অধিদপ্তরের অন্যান্য কর্মকর্তা-কর্মচারী এবং জেলা ও থানা পুলিশ। সে সময় চিমনীসহ ইটভাটা গুড়িয়ে দেওয়ায় সন্তোষ্ট প্রকাশ করেছিলেন স্থানীয়রা। কিন্তু ওই অভিযানের কয়েকদিন পর নতুন করে আবারও তিনটি ইটভাটার ছোট আকৃতির চিমনী নির্মাণ করে মালিকরা। স্থানীয়দের অভিযোগ, প্রশাসনকে বৃদ্ধাঙ্গুল দেখিয়ে ক্ষমতার দাপটে পরিবেশ দুষণ করে দেদারছে পুড়ানো হচ্ছে ইট। আর ছোট চিমনীতে বেশি নষ্ট হচ্ছে ধানসহ বিভিন্ন মৌসুমী ফসল ও ফলমুল। তাহলে ওই অবৈধ ইটভাটা এভাবেই চলবে? এমন প্রশ্ন হতাশাগ্রস্থ কৃষকসহ স্থানীয়দের।

অভিযানের পর কিভাবে ইটভাটা চালাচ্ছেন জানতে চাইলে এস.বি স্টার ওরফে স্ট্রং বিকসের মালিক নাসির উদ্দিন জানান, চিমনীটা ঠিক করে রাখছি। দেখি কি হয়? ইটভাটা তো ফেলে রাখা যাবে না। সবারটা ঠিক করছে, অন্য দুজন আবার আগুন দিয়ে চালু করেছে। আমি কথা বলে তারপর প্রসেসিং করবো। চিমনী নির্মাণের কথা স্বীকার করে ন্যাশনাল ব্রিকসের মালিক নুরুল ইসলাম জানান, আমি খুব ক্ষতিগ্রস্থ। যে মাল বানাইছি, সেগুলো তো পুড়াতে হবে। তারপর যদি না হয় তাহলে তো আর করবো না, ভাই। জে.আর.বি ইটভাটার মালিক সোহেল রানা জানান, গাজীপুর পরিবেশ অধিদপ্তরের সহকারী পরিচালক মইনুল হক জানান, নতুন করে ওই ইটভাটাগুলো চালু হয়েছে কিনা? তা আমার জানা নেই। তবে যদি এরকম হয়, তাহলে আমরা আবার ভেঙ্গে দিবো।

পরিবেশ অধিদপ্তরের ঢাকা সদর দপ্তরের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট (সিনিয়র সহকারী সচিব) কাজী তামজীদ আহমেদ জানান, বিষয়টি গাজীপুর পরিবেশ অধিদপ্তর ও কালিয়াকৈর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাকে জানাবেন। উনারা যদি জানায় আর কর্তৃপক্ষ যদি মনে করেন তাহলে আমি আবার অভিযান চালাবো। এব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা কাউছার আহম্মেদ জানান, পরিবেশ অধিদপ্তর এসে ভেঙ্গে দিয়েছে, তাহলে উনাদেরই বিষয়টি দেখা উচিত ছিল। তারপরেও বিষয়টি খোঁজ নিয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।


আরও খবর