Logo
আজঃ সোমবার ২৪ জুন 20২৪
শিরোনাম

ফুলবাড়ী উপজেলা সভাকক্ষে হাসপাতাল ব্যবস্থাপনা কমিটির সভা অনুষ্ঠিত

প্রকাশিত:সোমবার ২৭ মার্চ ২০২৩ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ | ২০৯জন দেখেছেন

Image

আফজাল হোসেন ফুলবাড়ী,দিনাজপুর প্রতিনিধি: ফুলবাড়ী উপজেলা সভাকক্ষে হাসপাতাল ব্যবস্থাপনা  কমিটির এক সভা অনুষ্ঠিত হয়। গতকাল সোমবার সকাল সাড়ে ১১ টায় উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগের আযোজনে ফুলবাড়ী  উপজেলা স্বাস্থ্য  কমপ্লেক্স  মিলনায়তনে এই সভা অনুষ্ঠিত হয়়। ফুলবাড়ী হাসপাতাল ব্যবস্থাপনা  কমিটির আলোচনা সভার পূর্বে ফুলবাড়ী  উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স  এন,সি,ডি কর্নার ও নতুন ভবনের মহিলা ওয়ার্ড এবং কেবিন ফিতা কেটে শুভ উদ্বোধন করেন প্রধান অতিথি হিসেবে এ্যাড.মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান ফিজার এম.পি, ও সাবেক সফল মন্ত্রী ও সভাপতি, প্রাথমিক ও গনশিক্ষা মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় ¯’ায়ী কমিটি এবং সভাপতি ফুলবাড়ী উপজেলা হাসপাতাল ব্যবস্থাপনা কমিটি। ফুলবাড়ী হাসপাতাল ব্যবস্থাপনা কমিটির সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন (ফুলবাড়ী ও পার্বতীপুর) উপজেলার উন্নয়নের রূপকার,স্থানীয় সংসদ সদস্য এ্যাড.মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান ফিজার এম.পি। ফুলবাড়ী উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ মোঃ মশিউর রহমান সভাপতিত্বে  সংক্ষিপ্ত বক্তব্য রাখেন ফুলবাড়ী উপজেলা  হাসপাতাল ব্যবস্থাপনা কমিটির সহ-সভাপতি, ফুলবাড়ী  উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ আতাউর রহমান মিল্টন । এ সময় বক্তব্য রাখেন, ফুলবাড়ী পৌরসভার মেয়র আলহাজ্ব মোঃ মাহামুদ আলম লিটন, ফুলবাড়ী উপজেলা আওয়ামীলীগ এর সাধারন সম্পাদক মুশফিকুর রহমান বাবুল। এ সময় উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান  মজ্ঞু রায় চৌধুরী, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান  নীরসাম”ছুজামান, ফুলবাড়ী উপজেলা আওয়ামীলীগ এর সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ আশরাফুল ইসলাম ডাবলু , দিনাজপুর জেলা পরিষদের সদস্য মোঃ শফিকুল ইসলাম বাবু, ফুলবাড়ী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এর আরএমও ডাঃ মোঃশাকিলুর রহমান,ডাঃ মোঃ সাজেদুল ইসলাম সহ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এর বিভিন্ন বিশেষজ্ঞ ডাক্তার, কর্মকর্তা কর্মচারী বৃন্দ,সাংবাদিক,সুধীজন উপস্থিত ছিলেন। প্রধান অতিথির বক্তব্য বলেন যে কোনো রোগী হাসপাতালে আসলে তারা যেন ডাক্তারদের কাছে যেন মন খুলে কথা বলতে পারে, এবং ভালো ব্যবহার পায়,সেখানে তাদের ভালো আচরণে রুগীরা যেনো মুগ্ধ হয় । হাসপাতালের ডাক্তারগন রোগীদের এমন সেবা দিয়ে  যাবেন যেন এই হাসপাতাল  বাংলাদেশের শ্রেষ্ঠ ¯’ানে যায় । মাননীয় প্রধান মšী¿ জন নেত্রী শেখ- হাসিনা স্বাস্থ্য সেবায় সর্বাত্বক সহযোগীতা করে যা”েছন । বাংলাদেশ এখন সব কিছুতে এগিয়ে গেছে ।



আরও খবর



বাজেট পাস হয়নি,অনেক কিছু পুনর্বিবেচনা করা সম্ভব: অর্থমন্ত্রী

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২০ জুন ২০24 | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ | ৫৩জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:জাতীয় সংসদের বাজেট পেশ করার পর নানা মহল থেকে নানা প্রতিক্রিয়া আসছে,বলেছেন অর্থমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ আলী।আমরা সব প্রতিক্রিয়া আমলে নিচ্ছি। যেগুলো বাস্তবসম্মত এবং বাজেটে বাস্তবায়নযোগ্য সেগুলো অবশ্যই পুনর্বিবেচনা করা হবে। কারণ এখনো বাজেট পাস হয়নি।

বৃহস্পতিবার (২০ জুন) রাজধানীর ফার্মগেটে বাংলাদেশ কৃষি গবেষণা কাউন্সিল (বিএআরসি) মিলনায়তনে ‘বৈশ্বিক প্রেক্ষাপটে বাংলাদেশের অর্থনীতি : প্রবৃদ্ধি, মুদ্রাস্ফীতি, খাদ্য ও পুষ্টি’ শীর্ষক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য তিনি এসব কথা বলেন।

অর্থমন্ত্রী বলেন, বাজেট পেশ করার পর নানা মহল নানা বক্তব্য দিচ্ছে। আবার অনেকেই সমালোচনা করছেন। তাদের উদ্দেশে বলব আমাদের অর্থনীতি নিয়ে, বাজেট নিয়ে বিশ্বব্যাংক কি বলছে সেদিকেও নজর দিয়েন।

তিনি বলেন, বাজেট নিয়ে আরও বক্তব্য আছে, বিশ্বব্যাংক বলেছে ভালো হয়েছে। আমার টাকা লাগবে, বিশ্বব্যাংকের কথা শুনতে হবে। না হলে আপনারা (সমালোচকরা) টাকা দেন।

আবুল হাসান মাহমুদ আলী বলেন, শেখ হাসিনা সরকার জনবান্ধব সরকার। অনেকেই বলে, সরকার শিগগিরই পড়ে যাবে, কই সরকার তো পড়ে না। সরকার দেউলিয়া হয়ে গেছে, দেউলিয়া মানে কি? দেউলিয়া তো হলো না। বিশ্বব্যাংক কিছু বোঝে না, আপনি সব কিছু বোঝেন? বাজেট দিলাম, এটা দেখেন ও বোঝার চেষ্টা করেন। এই বাজেট জনবান্ধব বাজেট। কোনো কিছুতে সমস্যা থাকলে পুনর্বিবেচনা করার সম্ভাবনা আছে।

সংসদ সদস্য সাজ্জাদুল হাসানের সভাপতিত্ব সেমিনারে আরও বক্তব্য দেন বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী আহসানুল ইসলাম টিটু, বাংলাদেশে নিযুক্ত জাতিসংঘের খাদ্য ও কৃষি সংস্থার প্রতিনিধি ড. জিয়াকুন শি, সাবেক পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী ড. শামসুল আলম প্রমুখ।


আরও খবর



সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের জন্য ১০০০ফিক্সের ‘শিখবে ওরা গড়বে দেশ’

প্রকাশিত:বুধবার ১২ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ | ৮২জন দেখেছেন

Image
মারুফ সরকার, স্টাফ রিপোর্টার:দেশের শীর্ষ আইটি, ডিজিটাল, মোবাইল ও হোম অ্যাপ্লায়েন্সেস সেবাদাতা প্রতিষ্ঠান ১০০০ফিক্স সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের জন্য নিয়ে এলো ‘শিখবে ওরা গড়বে দেশ’ ক্যাম্পেইন। দরিদ্রতার কারণে শিক্ষা যাতে বাধা না হয়ে দাঁড়ায়, সেই লক্ষ্যে দরিদ্র শিশুদের শিক্ষা ব্যবস্থা এবং শিক্ষা সরঞ্জাম প্রদান করতে ভিন্নমাত্রার আয়োজন করেছে প্রতিষ্ঠানটি। 

এ বিষয়ে ১০০০ফিক্স ও স্মার্ট ফাউন্ডেশনের মধ্যে একটি চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়। ১০০০ফিক্সের পক্ষ থেকে চুক্তিপত্র স্বাক্ষর করেন ১০০০ফিক্সের চিফ সার্ভিস অফিসার (সিএসও) ইফতেখার রাসেল এবং স্মার্ট ফাউন্ডেশনের পক্ষ থেকে নূর মোহাম্মদ শাহরিয়ার, জেনারেল ম্যানেজার, স্মার্ট ফাউন্ডেশন, এছাড়া আরো উপস্থিত ছিলেন মোহাম্মাদ আবুবক্কর সিদ্দিক, প্রিন্সিপ্যাল, স্মার্ট একাডেমি হেফজ ডিপার্টমেন্ট, স্মার্ট ফাউন্ডেশন, রিজওয়ানুল হক চৌধুরী, চিফ অপারেটিং অফিসার, ১০০০ফিক্স, উল্লাস কুমার ধর, হেড অফ টেকনিক্যাল অপারেশনস, এবিএম গোলাম মহিউদ্দিন, হেড অফ কর্পোরেট সার্ভিসি এবং ইমদাদুল হক মিলন, ব্রান্ড এন্ড মার্কেটিং ম্যানেজার।

মঙ্গলবার এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে প্রতিষ্ঠানটি জানিয়েছে, ১০০০ফিক্স ২০১৭ সাল থেকে কর্পোরেট ও রিটেইল কাস্টমারদের আইটি ডিভাইস, হোম অ্যাপ্লায়েন্সেস, মোবাইল ও এক্সেসরিজ রিপেয়ার সার্ভিস, ইন্সটলেশন এবং রেন্টাল সার্ভিস দিয়ে আসছে। নিজেদের ব্যবসার প্রসার বৃদ্ধির পাশাপাশি দেশ ও সমাজের প্রতি দায়িত্বশীলতার পরিচয় দিতে নানান উদ্যোগ নিয়ে থাকে প্রতিষ্ঠানটি। 

তারই ধারাবাহিকতায় ১০০০ফিক্স শুরু করেছে ‘শিখবে ওরা গড়বে দেশ’ নামক ক্যাম্পেইন, যা সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের শিক্ষাগ্রহণ কার্যক্রমে ইতিবাচক প্রভাব পড়বে। দরিদ্র শিশুদের শিক্ষা উন্নয়ন কার্যক্রমে থাউজেন্ড ফিক্স থেকে গ্রাহকের ক্রয়কৃত প্রতিটি সার্ভিস হতে ২০ টাকা মূল্য প্রদান করা হয়।

এ বিষয়ে ১০০০ফিক্সের মূল প্রতিষ্ঠান স্মার্ট গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম বলেন, স্মার্ট গ্রুপ ব্যবসার পাশাপাশি দেশের জনগণের কল্যাণে সর্বদাই অগ্রগামী ভূমিকা পালন করে। তারই অংশ হিসেবে স্মার্ট ফাউন্ডেশনের সঙ্গে থাউজেন্ড ফিক্স সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের শিক্ষার উন্নয়নে কাজ করছে। দরিদ্রতার কারণে সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের পড়াশোনা যাতে বাঁধাগ্রস্ত না হয়। এ জন্য আমরা দরিদ্র শিশুদের পাশে থাকতে শিক্ষা ব্যবস্থা এবং শিক্ষা সরঞ্জাম প্রদান করছি। আগামীতেও সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের কল্যাণে আমরা পাশে থাকতে চাই।

আরও খবর



ঘূর্ণিঝড় রিমাল মধ্যরাতে চূড়ান্ত আঘাত হানবে: প্রতিমন্ত্রী

প্রকাশিত:রবিবার ২৬ মে ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ | ১৫১জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:ঘূর্ণিঝড় রিমাল এর অগ্রভাগ রোববার (২৬ মে) মধ্যরাতে চূড়ান্ত আঘাত হানতে পারে, বলেছেন দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী মো. মহিববুর রহমান ।

সকালে সচিবালয়ে আন্ত:মন্ত্রণালয় দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা সমন্বয় কমিটির সভা শেষে সাংবাদিকদে তিনি এ তথ্য জানান। প্রতিমন্ত্রী বলেন, ঘূর্ণিঝড় রেমালের অগ্রভাগ রোববার সন্ধ্যায় আঘাত হানতে শুরু করবে। মধ্যরাতে ঘূর্ণিঝড় রেমাল উপকূলের প্রায় সব জেলায় চূড়ান্ত আঘাত হানার সম্ভাবনা রয়েছে। ঘূর্ণিঝড়ের কারণে ১০ থেকে ১২ ফুট জলোচ্ছ্বাস হতে পারে। এদিকে বাংলাদেশের উপকূলীয় এলাকায় প্রবল ঘূর্ণিঝড়ের অগ্রভাগের প্রভাবে দমকা হাওয়াসহ বৃষ্টি শুরু হয়েছে জানিয়ে আবহাওয়া অধিদপ্তরের এক বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ঘূর্ণিঝড়টি রোববার সকাল ৬টায় চট্টগ্রাম সমুদ্রবন্দর থেকে ৪০০ কিলোমিটার দক্ষিণ-পশ্চিমে, কক্সবাজার সমুদ্রবন্দর থেকে ৩৬০ কিলোমিটার দক্ষিণ-পশ্চিমে, মোংলা সমুদ্র বন্দর থেকে ৩৩০ কিলোমিটার দক্ষিণে এবং পায়রা সমুদ্রবন্দর থেকে ২৯৫ কিলোমিটার দক্ষিণে অবস্থান করছিল। এটি আরও উত্তর দিকে অগ্রসর হয়ে সন্ধ্যা বা মধ্যরাতে মোংলার কাছ দিয়ে সাগর আইল্যান্ড (পশ্চিমবঙ্গ) খেপুপাড়া উপকূল অতিক্রম করতে পারে।


আরও খবর



সুন্দরগঞ্জে ৫৫ ভূমিহীন পরিবারের মাঝে জমিসহ ঘরের কাগজপত্র হস্তান্তর

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১১ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ | ৮০জন দেখেছেন

Image
একেএম শামছুল হক  সুন্দরগঞ্জ (গাইবান্ধা) প্রতিনিধি:আশ্রয়ণ প্রকল্প-২ এর আওতায় গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জে ভূমিহীন, গৃহহীন ৫৫ পরিবারের মাঝে জমিসহ ঘরের কাগজপত্র হস্তান্তর করেছেন জেলা প্রশাসক কাজী নাহিদ রসুল।
 
মঙ্গলবার (১১ জুন) সারাদেশে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কর্তৃক ১৮ হাজার ৫৬৬ টি পরিবারকে জমি ও গৃহ প্রদানের উদ্বোধনের পর সুন্দরগঞ্জে সুবিধাভোগীদের মাঝে ঘরসহ জমির কাগজপত্র হস্তান্তর করা হয়। এ উপলক্ষ্যে উপজেলা প্রশাসন সম্মেলন কক্ষে আলোচনা সভায় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তরিকুল ইসলামের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন জেলা প্রশাসক কাজী নাহিদ রসুল। বক্তব্য রাখেন কাপাসিয়া ইউপি চেয়ারম্যান মনজু মিয়া, গণমাধ্যমকর্মী মনীষ সরকার রানা, শাহজাহান মিয়া ও সুৃবিধাভোগী প্রমূখ। শেষে জেলা প্রশাসক সুবিধাভোগীদের মাঝে দুই শতক জমি ও গৃহের কাগজপত্র হস্তান্তর করেন।

আরও খবর



মারা গেছেন ‘জল্লাদ’ শাহজাহান

প্রকাশিত:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ | ৩৪জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে সপরিবারে হত্যা মামলার মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত ৬ আসামিসহ প্রায় ২৬ জনের ফাঁসির দড়ি টানা আলোচিত ‘জল্লাদ’ শাহজাহান ভূঁইয়া মারা গেছেন।

আজ সোমবার (২৪ জুন) রাজধানীর শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান।

কারা সূত্রে জানা যায়, জল্লাদ শাহজাহান ২০০১ সাল থেকে এ পর্যন্ত ২৬ জনের ফাঁসি দিয়েছেন। এর মধ্যে ছয়জন বঙ্গবন্ধু হত্যা মামলায় মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত আসামি, চারজন যুদ্ধাপরাধী, জঙ্গি নেতা বাংলাভাইসহ দুজন জেএমবি সদস্য এবং আরও ১৪ জন অন্যান্য আলোচিত মামলার আসামির ফাঁসি কার্যকর করেছেন তিনি।

জল্লাদ শাহজাহানের বোন ফিরোজা বেগমর জানান, ভাই বেশ কিছুদিন ধরে ঢাকার অদূরে হেমায়েতপুরে থাকতেন। রোববার রাতে তার বুকে ব্যথা শুরু হলে সোহরাওয়ার্দী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানেই তিনি মারা যান।

জানা যায়, ১৯৯১ সালে গ্রেপ্তার হওয়ার পর ৩৬টি মামলায় শাহজাহানের ১৪৩ বছরের সাজা হয়। পরে ৮৭ বছরের সাজা মাফ করে তাকে ৫৬ বছরের কারাদণ্ড দেওয়া হয়। ফাঁসি কার্যকর ও সশ্রম কারাদণ্ডের সুবিধার কারণে সেই সাজা ৪৩ বছরে এসে নামে। দুটি মামলায়পাঁচ হাজার টাকা করে ১০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে ছয় মাস করে অতিরিক্ত এক বছর জেল খেটে ৩২ বছর পর ১৮ জুন মুক্ত আকাশে শ্বাস ফেলার সুযোগ পাবেন জল্লাদ শাহজাহান।

সহযোগী জল্লাদ হিসেবে গফরগাঁওয়ের নূরুল ইসলামকে ফাঁসি দিয়ে শাহজাহান তার জল্লাদ জীবনের সূচনা করেন। এরপর কারাগারে কারও মৃত্যুদণ্ড কার্যকরের সময় আসলেই ডাক পড়তো তার। টানা আট বছর এই কাজ করার পর কারা কর্তৃপক্ষ তাকে প্রধান জল্লাদের স্বীকৃতি দেন।


আরও খবর