Logo
আজঃ রবিবার ১৪ জুলাই ২০২৪
শিরোনাম
মুক্তিযোদ্ধার নাতি-নাতনিরা পাবে না তো রাজাকারের নাতিরা পাবে? কর্মীদের দক্ষ করে বিদেশে পাঠাতে হবে : প্রতিমন্ত্রী বাংলাদেশকে কত বিলিয়ন অনুদান-ঋণ দেবে চীন, জানালেন প্রধানমন্ত্রী নাসিরনগরে খুনের মামলার বাদীর এখন দিন কাটছে আতংকে মধুপুরে ক্লিনিং স্যাটারডে কার্যক্রম অনুষ্ঠিত এবার কোটা আন্দোলনের পক্ষে কথা বললেন আয়মান সাদিক ভারতে পাচার হওয়া ৫ বাংলাদেশি সাজাভোগ শেষে দেশে ফিরেছে শিক্ষার্থীরাই হবে আগামী বাংলাদেশের কর্ণধার: ধর্মমন্ত্রী দেশের অর্থনীতি এখন যথেষ্ট শক্তিশালী: প্রধানমন্ত্রী বীরগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স পরিদর্শন করলেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী ডাঃ সামন্ত লাল সেন

তামিমের সাথে কী হয়েছিলো ড্রেসিংরুমে বোমা ফাটালেন নিজেই

প্রকাশিত:বুধবার ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২৩ | হালনাগাদ:রবিবার ১৪ জুলাই ২০২৪ | ৩২৯জন দেখেছেন


আরও খবর



দুর্নীতির বিরুদ্ধে অবস্থানের কারণেই আমাকে হত্যার পরিকল্পনা: ব্যারিস্টার সুমন

প্রকাশিত:রবিবার ৩০ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:রবিবার ১৪ জুলাই ২০২৪ | ১৩৩জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:দুর্নীতিবাজদের বিরুদ্ধে অবস্থান নেওয়ার কারণেই আমাকে হত্যার পরিকল্পনা করা হয়েছে, বলেছেন হবিগঞ্জ-৪ আসনের সংসদ সদস্য ব্যারিস্টার সায়েদুল হক সুমন। ‘অজ্ঞাতনামা একটি শক্তিশালী মহল’ আমাকে হত্যার জন্য মাঠে নেমেছে এমন তথ্য পাওয়ার পর থানায় জিডি করেছি।

শনিবার (২৯ জুন) দিবাগত রাত ১২টার দিকে সংবাদমাধ্যমকে দেয়া সাক্ষাৎকারে এসব কথা বলেন ব্যারিস্টার সুমন।এর আগে, শনিবার রাতে রাজধানীর শেরেবাংলা নগর থানায় সাধারণ ডায়েরি করেন ব্যারিস্টার সুমন।

জিডিতে তিনি উল্লেখ করেন, বৃহস্পতিবার (২৮ জুন) দিবাগত রাত ২টার দিকে চুনারুঘাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) তাকে সরকারি মোবাইল থেকে হোয়াটসঅ্যাপে ফোন করেন। ফোনে ওসি জানান, তাকে হত্যা করতে অজ্ঞাতনামা একটি শক্তিশালী মহল তিনদিন আগে একটি টিম নিয়ে মাঠে নেমেছে। এ সময় পুলিশের ওই কর্মকর্তা সুমনকে সাবধানে চলাচল ও রাতে বের না হওয়ার অনুরোধ করেন। জিডিতে এ নিয়ে মারাত্মক নিরাপত্তাহীনতায় থাকার কথাও উল্লেখ করেছেন সুমন।

পরে ব্যারিস্টার সুমন জানান, একজন অজ্ঞাতনামা ব্যক্তি চুনারুঘাট থানার ওসিকে ফোন দিয়ে তাকে হত্যার পরিকল্পনা করা হয়েছে বলে জানায়। পরে ওই অজ্ঞাতনামা ব্যক্তির সঙ্গে কথাও বলেন তিনি। অজ্ঞাতনাম ব্যক্তি সুমনকে জানান, তাকে হত্যায় একটি গ্রুপকে কন্ট্রাক্ট কিলিংয়ের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে এবং সেই গ্রুপটি সক্রিয়ভাবে কাজ করছে।

সুমন আরও জানান, এর আগেও তিনি অনেকবার হুমকির শিকার হয়েছেন। তবে, এবার থানার ওসির মাধ্যমে বিষয়টি জানতে পারায় তিনি নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন।

সম্প্রতি দুর্নীতিবাজদের বিরুদ্ধে কড়া অবস্থান এবং সংসদে এ নিয়ে বক্তব্য রাখায় প্রভাবশালীদের কেউ তাকে হত্যা করতে চাইতে পারে বলেও জানান তিনি।


আরও খবর



রূপগঞ্জে ইউপি চেয়ারম্যানের সঙ্গে এলাকাবাসীর মতবিনিময়

প্রকাশিত:রবিবার ১৪ জুলাই ২০২৪ | হালনাগাদ:রবিবার ১৪ জুলাই ২০২৪ | ২৯জন দেখেছেন

Image

মোঃআবু কাওছার মিঠু রূপগঞ্জ (নারায়ণগঞ্জ)প্রতিনিধি:- নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জ উপজেলার রূপগঞ্জ ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনকে সামনে রেখে  ইউপি চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মোঃ ছালাউদ্দিন ভুইয়ার সঙ্গে এলাকাবাসীর  মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

মতবিনিময় সভায় ভোলানাথপুর, কাদিরাটেক, ইছাপুরা এলাকার প্রায় সহস্রাধিক স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীসহ বিভিন্ন পেশার লোকজন অংশ নেন। গতকাল ১৪ জুলাই রবিবার  উপজেলার রূপগঞ্জ ইউনিয়নের  ইউসুফগঞ্জ স্কুল এন্ড কলেজ মাঠে আয়োজিত  মতবিনিময় সভায় সভাপতিত্ব করেন বীর মুক্তিযোদ্ধা শাহজাহান ভুইয়া।


সভায় বক্তব্য রাখেন ইউপি চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মোঃ ছালাউদ্দিন ভুইয়া, রূপগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি মশিউর রহমান তারেক, রূপগঞ্জ উপজেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি এমএ মোমেন, রূপগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের প্রচার প্রকাশনা বিষয়ক সম্পাদক মাছুম চৌধুরী অপু, ১নং ওয়ার্ডের মেম্বার আলমগীর হোসেন,  যুবলীগ নেতা লিটন, বীর মুক্তিযোদ্ধা গিয়াসউদ্দিন, মোন্তাজ উদ্দিন, আওয়ামীলীগ নেতা হাজী আমজাদ হোসেন, আব্দুুল মতিন, রূপগঞ্জ ইউনিয়ন ছাত্র লীগের সভাপতি আব্দুল আজিজ, সাধারণ সম্পাদক আরিফ খাঁন জয়, ব্যবসায়ী ছালাউদ্দিন প্রমুখ। 


সভায় বক্তারা বলেন, আগামী নির্বাচনে ছালাউদ্দিন ভুইয়াকে আমরা আবারও নির্বাচিত করব। ছালাউদ্দিন চেয়ারম্যানকে আমরা সবসময় পাশে পেয়েছি। এ রূপগঞ্জ ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হিসেবে ছালাউদ্দিন ভাই যোগ্য চেয়ারম্যান। ছালাউদ্দিন চেয়ারম্যানকে ছাড়া আমরা অন্য কাউকে চিনিনা। আসন্ন রূপগঞ্জ ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনে উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে আমরা আবারো ছালাউদ্দিন চেয়ারম্যানকে নির্বাচিত করব। 


মতবিনিময় সভায় রূপগঞ্জ ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মোঃ ছালাউদ্দিন ভুইয়া বলেন, আজকে এ মতবিনিময় সভায় আপনাদের উপস্থিতিতে বুঝা গেছে ভালোবাসার কাছে টাকা পয়সা মুল্যহীন। আপনারা আমাকে ভালোবাসেন। টাকাকে নয়। মানুষ আমাকে টাকার জন্য ভালোবাসেনা। মানুষ আমাকে ভালোবাসেন আমার কর্মের কারনে। আমি বিগত ৫ বছর আপনাদেরকে সেবা দিয়েছি। যদি আপনারা মনে করেন আমি আপনাদের সেবা ভালো দিয়েছি তাহলেই আপনারা আমাকে ভোট দিবেন। 

    -খবর প্রতিদিন/ সি.ব


আরও খবর



রূপগঞ্জে জমে উঠেছে কাঞ্চন পৌরসভা নির্বাচন

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২০ জুন ২০24 | হালনাগাদ:রবিবার ১৪ জুলাই ২০২৪ | ১৭৩জন দেখেছেন

Image

মোঃআবু কাওছার মিঠু রুপগঞ্জ (নারায়ণগঞ্জ) প্রতিনিধিঃ- নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে কাঞ্চন পৌরসভার নির্বাচনে মোবাইল ফোন মার্কা প্রতীকের প্রচার প্রচারণা জমে উঠেছে ব্যাপকভাবে। এদিকে কাঞ্চন পৌরসভা নির্বাচনে মেয়র প্রার্থী হিসেবে প্রতিদ্বন্দিতা করছেন মেয়র প্রার্থী রফিক জগ মার্কা ও মেয়র প্রার্থী দেওয়ান আবুল বাশার বাদশা মোবাইল ফোন মার্কায়। তারই ধারাবাহিকতায় আওয়ামী লীগের মনোনীত মোবাইল ফোন মার্কার মেয়র প্রার্থী দেওয়ান আবুল বাশার বাদশার পক্ষে গতকাল বিকাল ৩ টার দিকে রুপগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের সভাপতি প্রার্থী এইচ এম ইমরান হোসেন উপজেলার কাঞ্চন পৌরসভার ৭ নং ওয়ার্ডের কুশাব, নলিরটেক, নলপাথর এলাকায় কয়েকশ নেতা কর্মী নিয়ে কাঞ্চন পৌরসভার সাধারণ ভোটারদের দ্বারে দ্বারে মোবাইল ফোন প্রতীক মার্কায় তাদের মূল্যবান ভোট চেয়ে গণসংযোগ ও প্রচার-প্রচারণাসহ লিফলেট বিতরণ করেন। 


পরে কাঞ্চন পৌরসভার ৭ নং ওয়ার্ডের ভোটারদের উদ্দেশ্যে রূপগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের সভাপতি প্রার্থী এইচ এম ইমরান হোসেন বলেন, রূপগঞ্জ আওয়ামী লীগের মনোনীত মেয়র প্রার্থী দেওয়ান আবুল বাসার বাদশাকে যদি আপনারা মোবাইল মার্কা প্রতীকে আপাদের মূল্যবান ভোট দিয়ে নির্বাচিত করেন তা হলে আপনাদের কাঞ্চন পৌরসভার যে কাজগুলো স্থগিত রয়েছে সে কাজগুলো দেওয়ান আবুল বাশার বাদশা সম্পূর্ণ করবে এবং আপনারা কাঞ্চনবাসীরা সুখে-দুখে যেকোনো সময় কাছে পাবেন দেওয়ান আবুল বাশার বাদশাকে।


তাই আপনারা কাঞ্চন পৌরসভা বাসি সবাই দেওয়ান আবুল বাসার বাদসাকে মোবাইল ফোন মার্কা প্রতীকে আপনাদের মূল্যবান ভোট দিয়ে আপনাদের কাঞ্চনবাসীর কাজ করার সুযোগ করে দিবেন ইনশাআল্লাহ।

      -খবর প্রতিদিন/ সি.ব


আরও খবর



যুক্তরাজ্যের নগরমন্ত্রী হলেন টিউলিপ সিদ্দিক

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৯ জুলাই ২০২৪ | হালনাগাদ:রবিবার ১৪ জুলাই ২০২৪ | ১০৫জন দেখেছেন

Image

খবর প্রতিদিন ২৪ডেস্ক:বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নাতনি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ছোট বোন শেখ রেহানার মেয়ে টিউলিপ সিদ্দিক ব্রিটেনের নগরমন্ত্রী হয়েছেন । উত্তর-পশ্চিম লন্ডনের হ্যাম্পস্টেড অ্যান্ড হাইগেট আসনে টানা চতুর্থবারের মতো বিজয়ী হন টিউলিপ সিদ্দিক।

বিবিসির প্রতিবেদন মতে, গত ৫ জুলাই বাকিংহাম প্যালেস থেকে ফিরেই মন্ত্রিসভা গঠনের কাজ শুরু করেন নতুন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী কিয়ার স্টারমার। এরই মধ্যে বেশ কয়েকজনের নাম ঘোষণা করা হয়েছে। লেবার এমপি অ্যাঞ্জেলা রেনারকে উপপ্রধানমন্ত্রী হিসেবে নিয়োগ দেওয়া হয়। সে ধারাবাহিকতায় ব্রিটেনের হ্যাম্পস্টেড অ্যান্ড হাইগেট আসন থেকে নির্বাচিত এমপি টিউলিপকে নগরমন্ত্রী করা হলো।

গত শুক্রবার (৫ জুলাই) সকালে ব্রিটিশ পার্লামেন্টের অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে প্রকাশিত ফলাফলে দেখা গেছে, টিউলিপ সিদ্দিক নির্বাচনে তিনি ৪৮ দশমিক ৩ শতাংশ ভোট পেয়েছেন। আর তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী পেয়েছেন ১৭ দশমিক ৪ শতাংশ। এ ছাড়া নির্বাচনে মোট ৬০ দশমিক ৭ শতাংশ ভোটগ্রহণ হয়েছে।

যুক্তরাজ্যের সদ্য সমাপ্ত নির্বাচনে ১৪ বছর ধরে ক্ষমতায় থাকা কনজারভেটিভ পার্টিকে বিশাল ব্যবধানে হারায় টিউলিপের দল লেবার পার্টি। নির্বাচনে টানা চতুর্থবারের মতো জয় পান বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নাতনি টিউলিপ সিদ্দিক। জয়ের পর টিউলিপ সিদ্দিক বলেছিলেন, সবাইকে শুভেচ্ছা জানাই। আপনাদের দোয়ায় চতুর্থবারের মতো আমি নির্বাচিত হলাম। বাংলাদেশি কমিউনিটি সব সময় আমাকে সমর্থন করে। আমি তাদের প্রতি খুবই কৃতজ্ঞ যে, তারা এবারও আমাকে সমর্থন দিয়েছেন।

মেয়ের জয়ে উচ্ছ্বসিত ছিলেন বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ রেহানাও। তিনি বলেছিলেন, আমার মেয়ে আবার এমপি নির্বাচিত হলো। মানুষের সেবায় সে নিষ্ঠার সঙ্গে তার দায়িত্ব পালন করবে। শুধু নির্বাচনের সময় নয়, সারা বছরই সে এলাকায় কাজ করে। সবার কাছে দোয়া চাই, সে যেন তার কাজ নিষ্ঠার সঙ্গে করতে পারে।

এবার নির্বাচনে টিউলিপসহ ৩৪ বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত ব্রিটিশ নাগরিক ভোটে অংশগ্রহণ করেছিলেন। এর মধ্যে লেবার পার্টির প্রার্থী হয়েছিলেন আটজন। তাদের মধ্যে টিউলিপসহ জয় পেয়েছেন চারজন। অন্য তিনজন হলেন রুশনারা আলী, রূপা হক এবং আফসানা বেগম।

-খবর প্রতিদিন/ সি.


আরও খবর



মাগুরায় জনগনের প্রচেষ্টায় মৃতপ্রায় খালের প্রান ফিরে পেল

প্রকাশিত:সোমবার ০১ জুলাই ২০২৪ | হালনাগাদ:রবিবার ১৪ জুলাই ২০২৪ | ১০৩জন দেখেছেন

Image
স্টাফ রিপোর্টার মাগুরা থেকে:মাগুরার শালিখা উপজেলায় কানুদা খালের পানির প্রবাহ ফেরাতে কচুরিপানা পরিষ্কারের উদ্যোগ নেয় উপজেলা প্রশাসন। স্থানীয় জনগনকে সম্পৃক্ত করে  সম্প্রতি কয়েক শ স্বেচ্ছাসেবক ও নানা শ্রেণি-পেশার মানুষের অংশগ্রহণে কার্যক্রমটি বাস্তবায়িত হয়েছে। কর্মকর্তারা বলেন, কচুরিপানা সরিয়ে পানি প্রবাহ ফিরে এলে খালের পানি স্থানীয় লোকজন নানা কাজে ব্যবহার করতে পারবেন এ কারনেই এ উদ্যোগ নেয়া হয়। আর এ উদ্যোগ বাস্তবায়নের ফলে মৃতপ্রায় খালটি প্রান ফিরে পেয়েছে। প্রশাসনের এ উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়েছে এলাকাবাসী।


স্বেচ্ছাসেবকদের পাশাপাশি শ্রমিকদের নিয়ে কঠোর পরিশ্রমের মাধ্যমে খালের দেড় কিলোমিটারের কচুরিপানা পরিষ্কার করা হয়েছে বলে জানায় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা হরে কৃঞ্চ অধিকারী।  সম্প্রতি উপজেলা প্রশাসন আয়োজিত এ কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ আবু নাসের বেগ। এ সময় অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক আবদুল কাদের, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ইলিয়াসুর রহমান, জেলা পরিষদ সদস্য মুন্সী আবু হানিফসহ বিভিন্ন শ্রেণি–পেশার লোকজন উপস্থিত ছিলেন। পরে খাল-সংলগ্ন ইকোপার্কে বৃক্ষ রোপণ করা হয়।  খালটি দীর্ঘদিন যাবত কচুরিপানায় পরিপূর্ণ হয়ে পানি প্রবাহ বন্ধ হয়েছিল। ফলে জনগনের কোন উপকারে আসছিল না।  কয়েক'শ স্বেচ্ছাসেবক ও স্থানীয় জনগন ঐক্যবদ্ধ হয়ে খালটির কচুরিপানা পরিস্কার করে খালের প্রান ফিরিয়ে আনতে সক্ষম হয়েছে। বর্তমানে খালটির পানি প্রবাহ চালু হওয়ায় জনগন এর সুবিধা পাচ্ছে।


আরও খবর