Logo
আজঃ রবিবার ১১ জুন ২০২৩
শিরোনাম

রাশিফল ২১ মার্চ: ভাগ্যে কী আছে আজ ?

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২১ মার্চ ২০২৩ | হালনাগাদ:রবিবার ১১ জুন ২০২৩ | ২৫৬জন দেখেছেন

Image

অনলাইন ডেস্ক ;সাধারণত রাশিফল গণনা করা হয় চন্দ্রের অবস্থানের উপরে ভিত্তি করে। কিন্তু ইংরেজি মতে এ ক্ষেত্রে প্রাধান্য দেওয়া হয় সূর্যকে। তাই ইংরেজিতে রাশিকে বলা হয় সান সাইন। এক্ষেত্রে জন্মদিন অনুসারে বোঝা যায় একজন ব্যক্তি কোন রাশির জাতক বা জাতিকা।

এ রাশি নিয়ে নানা ভাবনা, নানা মত রয়েছে। কেউ এটাকে বিশ্বাস করেন, আবার কেউ এসব মানতে চান না। কেউ আবার না মানলেও লুুকিয়ে দেখে নেন কি আছে ভাগ্যে। যা হোক; সেই তর্ক-বিতর্ক দূরে থাক, বিশ্বাস-অবিশ্বাসের প্রশ্ন না করে- দিনের শুরুতে চলুন মিলিয়ে নেয়া যাক- কেমন যাবে আজকের দিনটি?

জন্মদিন মিলিয়ে দেখে নিন আজকের দিনে কোন রাশি কী নির্দিষ্ট করে রেখেছে তার জাতক-জাতিকার জন্য।

আজ ২১ মার্চ ২০২৩ খ্রিষ্টাব্দ, মঙ্গলবার। আজকের দিনটি মেষ রাশির। মেষ রাশিরা শৃঙ্খলা বজায় রাখবে।

মেষ রাশি (২১ মার্চ-২০ এপ্রিল):
স্বাস্থ্যের যত্ন নিন। পেট, রক্তচাপ এবং ডায়াবেটিস সংক্রান্ত সমস্যা হতে পারে। আপনার খাদ্যতালিকা ঠিক রাখুন। কর্মক্ষেত্রে কারও পরামর্শে কোনো সিদ্ধান্ত নেবেন না, পরিস্থিতি নিজেই বিশ্লেষণ করুন। আজ ব্যক্তিগত জীবনে কারো কাছ থেকে আঘাত আসতে পারে।

বৃষ রাশি (২১ এপ্রিল-২০ মে):
আজ স্বাস্থ্য ভালো থাকবে। সৃষ্টিকর্তার আশীর্বাদ আপনার সঙ্গে থাকবে। পানি খান ভাল করে। আজ বড় কোনো খরচ করবেন না। ভুল সিদ্ধান্তের কারণে টেনশন হতে পারে। গোসলের পানিতে এসেনশিয়াব অয়েল ব্যবহার করুন, উপকার পাবেন। ব্যক্তিগত জীবনে কোনো বিষয়ে নিরাপত্তাহীনতা অনুভব করতে পারেন, আত্মবিশ্বাসী হন।

​মিথুন রাশি (২১ মে-২০ জুন):
আজ আপনার মনে কাজের চিন্তা আসবে। স্বাস্থ্য ভালো থাকবে। কর্মক্ষেত্রে আপনার ভালো লাগবে না। কাঙ্খিত পুরস্কার পাবেন, ধৈর্য ধরুন। আপনার সঙ্গীর স্বাস্থ্যের যত্ন নিন, যেকোনো ধরনের ঝগড়া থেকে দূরে থাকুন। আজ টাকা লেনদেন এড়িয়ে চলুন।

কর্কট রাশি (২১ জুন-২০ জুলাই):
আজ স্বাস্থ্যের যত্ন নিন। শীঘ্রই আর্থিক স্থিতিশীলতা পাওয়া যাবে, নতুন সুযোগ পাওয়া যাবে। সম্পর্কের ক্ষেত্রে কিছু সমস্যা হতে পারে। উত্তেজনার পরিবেশ এড়িয়ে চলুন, ইতিবাচক চিন্তা করুন এবং কাউকে বিচার করবেন না।

সিংহ রাশি (২১ জুলাই-২১ আগস্ট):
আজ আপনার হাতে টাকা আসবে। সমাজে সম্মান পাবেন। আজ আপনার সমস্ত মনোযোগ অর্থ সংক্রান্ত বিষয়ে নিবদ্ধ থাকবে। শিক্ষার্থীদের জন্য আজকের দিনটি ভালো, তারা পরীক্ষার ফল পাবেন। একটি নতুন চুক্তি নিশ্চিত করা যেতে পারে, নতুন কাউকে বিশ্বাস করার আগে ভালো করে চিন্তা করুন।

​কন্যা রাশি (২২ আগস্ট-২২ সেপ্টেম্বর):
আজ আপনার মনে নিরাপত্তাহীনতা থাকতে পারে। ফলাফলের কথা চিন্তা না করে কঠোর পরিশ্রমে মনোনিবেশ করুন, আপনি শীঘ্রই সুসংবাদ পাবেন। অফিসে একটি নতুন সুযোগ পাবেন। আর্থিক লাভ হবে। আর্থিক স্থিতিশীলতা আসতে পারে। আজ কেউ আপনার সম্পর্কে খারাপ ধারণা করতে পারে, সতর্ক থাকুন।

তুলা রাশি (২৩ সেপ্টেম্বর-২২ অক্টোবর):
আজ আপনার কাঙ্ক্ষিত ফলাফল না পেয়ে দুঃখ বোধ হতে পারে, হতাশ হবেন না। আপনার জেদকে সঠিক জায়গায় ব্যবহার করুন এবং কঠোর পরিশ্রমকে ভয় পাবেন না। পরিবারে প্রশংসা পাবেন। আপনার ব্যক্তিত্ব আরও দৃঢ় হয়ে উঠবে। আপনি নতুন পরিচিত কোনো ব্যক্তির সঙ্গে দেখা করতে পারেন। কথাবার্তায় মাধুর্য বজায় রাখুন।

বৃশ্চিক রাশি (২৩ অক্টোবর-২১ নভেম্বর):
আজ আপনার স্বাস্থ্য ভালো থাকবে, সৃষ্টিকর্তার আশীর্বাদ আপনাকে সাহায্য করবে। হাড়ের রোগের ব্যথাও কমবে। কর্মক্ষেত্রে আপনার আশেপাশের লোকজনকে নিয়ে সতর্ক থাকুন। প্রতারিত হতে পারেন। প্রেম জীবনে অনেক বেশি প্রত্যাশা রাখা ক্ষতিকর হবে। আপনার চারপাশের মানুষের প্রশংসা করুন।

ধনু রাশি (২২ নভেম্বর-২০ ডিসেম্বর):
আজ আপনার অহেতুক মানসিক চাপ থাকতে পারে, অতিরিক্ত চিন্তা করা থেকে দূরে থাকুন, কারো কথায় কিছু মনে করবেন না। কর্মক্ষেত্রে পদোন্নতি পাবেন, শীঘ্রই নতুন সুযোগে আর্থিকভাবে স্থিতিশীল হবেন। ব্যক্তিগত জীবনে, কাউকে আপনার দৃষ্টিভঙ্গি মেনে নিতে বাধ্য করবেন না, পরে আপনি তার জন্য অনুশোচনা করবেন। ভেবেচিন্তে কথা বলুন।

মকর রাশি (২১ ডিসেম্বর-১৯ জানুয়ারি):
আজ স্বাস্থ্য আগের থেকে ভালো থাকবে, উদ্যমী বোধ করবেন। আপনার অনন্য স্টাইল দেখে সবাই মুগ্ধ হবে। পরিবারে সম্মান বাড়বে, সৃষ্টিকর্তার আশীর্বাদ আপনার সঙ্গে থাকবে। আপনার বিশ্লেষণী শক্তি শক্তিশালী থাকবে। কাজের ক্ষেত্রে খুব চ্যালেঞ্জিং সময় যাচ্ছে, কারো সাথে আপনার চিন্তা শেয়ার করুন, আপনি ভাল বোধ করবেন।

কুম্ভ রাশি (২০ জানুয়ারি-১৮ ফেব্রুয়ারি):
আজ আপনার দিনটি শুভ হবে, আপনার ব্যক্তিগত ও পেশাগত জীবনে সুখ আসবে। বন্ধুদের সঙ্গে দেখা করার পরিকল্পনা করতে পারেন। শীঘ্রই ভালো খবর পাবেন। আত্মবিশ্বাসী হোন, নিরাপত্তাহীনতায় ভুগবেন না। সাফল্য আপনার জন্য অপেক্ষা করছে। আজ ভ্রমণের সম্ভাবনাও রয়েছে।

​মীন রাশি (১৯ ফেব্রুয়ারি-২০ মার্চ):
আজ আপনার জীবনে একটি বড় পরিবর্তন হতে পারে, প্রস্তুত থাকুন। পারিপার্শ্বিক পরিস্থিতি সঠিকভাবে বুঝুন, সতর্ক থাকুন এবং কারো কথায় জড়াবেন না। ইতিবাচক চিন্তা করতে থাকুন, শীঘ্রই সময় অনুকূল হয়ে উঠবে। পরিবারে আনন্দের পরিবেশ থাকবে, আপনি নতুন বাড়ি কেনার কথা বিবেচনা করতে পারেন।


আরও খবর



মেয়র সাইদুরের উন্নয়নের চমক বদলে যাচ্ছে গ্রামীন রাস্তা

প্রকাশিত:বুধবার ৩১ মে ২০২৩ | হালনাগাদ:শনিবার ১০ জুন ২০২৩ | ১৫২জন দেখেছেন

Image
আব্দুস সবুর তানোর প্রতিনিধি: দীর্ঘ প্রায় ১৫ বছর ধরে চোখে পড়ার মত তেমন উন্নয়ন মুলক কার্যক্রম ছিল না। অনেক আসা নিয়ে নানা চ্যালেঞ্জ মোকাবিলা করে রাজশাহীর তানোর উপজেলার মুন্ডুমালা পৌরসভার মেয়র নির্বাচিত হন সাইদুর রহমান। নির্বাচনের আগে ভোটারদের প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন যদি নির্বাচিত হতে পারি বা আপনারা নির্বাচিত করেন তাহলে অতীতে যা হয়নি বা দেখেন নি সে উন্নয়ন করা হবে। প্রতিশ্রুতি অনুযায়ী একের পর এক উন্নয়নের চমক দেখাচ্ছেন মেয়র। শুধু তাই না রাজস্ব বাড়িয়ে দিয়েছেন দ্বিগুন। একারনে দ্বিতীয় শ্রেণী পৌরসভাকে  প্রথম শ্রেণী করার জন্য আবেদন করা হয়েছে। হয়তো দুএক বছরের মধ্যে প্রথম শ্রেণীর পৌরসভা হতে পারে বলে ধারনা করছেন মেয়রসহ কর্তৃপক্ষ । ফলে মেয়রের উন্নয়ন মুলক কর্মকান্ডে স্বস্তি বিরাজ করছে আপামর পৌর নাগরিকদের মাঝে। 

জানা গেছে, বিগত ২০২০ সালের ৩০ ডিসেম্বর মুন্ডুমালা পৌরসভার নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। দায়িত্ব গ্রহন করেন ২০২১ সালের মার্চ মাসে । দায়িত্ব নেওয়ার পর থেকেই একের পর এক উন্নয়ন করেই চলেছেন। পৌরসভা সংলগ্ন পূর্বদিকে বাগমারা গ্রামের আনাচে কানাচে ১ কোটি টাকা ব্যয়ে আরসিসি রাস্তা নির্মান করেন। এর আগে পৌরসভার সীমানা প্রচীর ও গেট নির্মান করেন। বাগমারা গ্রামের রাস্তা নির্মানে প্রচুর বাধা ও মামলা পর্যন্ত হয়। কিন্তু কোন কিছুর তোয়াক্কা না করে গ্রামবাসীর একান্ত সহযোগীতায় রাস্তার কাজ সম্পন্ন করেছেন মেয়র। শুধু মুল রাস্তা না পাড়ার ভিতরে গ্রামবাসীর সুবিধার জন্য আরসিসি রাস্তা করে দিয়েছেন। রাস্তা উদ্বোধনের দিন গ্রামবাসী আনন্দে চাদা তুলে পৌর কর্তৃপক্ষ সহ পাড়ার জনসাধারন কে ভূড়িভোজ করান। এছাড়াও সাতপুকুরিয়া ২৮০ মিটার, চরক ডাইংপাড়া ৪৫০ মিটার ও চুনিয়াপাড়া ১৮০ মিটার আরসিসিসি রাস্তার কাজ শেষ হয়েছে এবং টকটকিয়া গ্রামে ৬৫০ মিটার আরসিসিসি রাস্তার কাজ চলমান রয়েছে।

পৌর নাগরিকরা জানান, বিগত ২০০২ সালের দিকে মুন্ডুমালা পৌরসভা প্রতিষ্ঠিত হয়। প্রতিষ্ঠিত মেয়র ছিলেন প্রয়াত হেবিওয়েট বিএনপি নেতা শীষ মোহাম্মাদ। তার সময়ে রাস্তা ঘাট সহ নানা উন্নয়ন মুলুক কাজ হয়। বিগত ২০১১ ও ২০১৬ সালে মেয়র নির্বাচিত হন সাবেক আ"লীগ সভাপতি গোলাম রাব্বানী। তার সময়ে চোখে পড়ার মত খুব একটা উন্নয়ন হয়নি বললেই চলে। কিন্তু সাইদুর স্বতন্ত্র প্রার্থী হয়ে নানা প্রতিকূলতার মধ্যে মেয়র নির্বাচিত হন। তার প্রথম জীবন শুরু মুন্ডুমালা বাজারের কুলির সরদার হিসেবে, এরপরে মুন্ডুমালা মহিলা কলেজে নৈশ প্রহরীর চাকুরী করেন। তিনি মেয়র হবেন এটা কেউ কল্পনা করেনি। কিন্তু সে মেয়র হওয়ার আগ থেকেই পৌরবাসীর আপদ বিপদে ছুটে যেতেন এবং মহামারি করোনা ভাইরাসের সময় নিজ তহবিল থেকে প্রচুর অনুদান দিয়ে আপামর পৌরবাসীর মনে জায়গা করে নেয়। মেয়রের দায়িত্ব নিয়েই পৌর ভবনের সীমানা প্রচীর ও গেট নির্মান এবং ভবনকে অন্যরকম ভাবে সংস্কার করে তাক লাগিয়ে দেন। এর পর তিনি মুন্ডুমালা বাজারের তিন মাথা মোড়ে গোল চত্বর ও বঙ্গবন্ধুর ম্যুরাল তৈরি করে নতুন ইতিহাস গড়ে তোলেন। এটা তৈরির সময় নানা ধরনের বাধা বিভিন্ন দপ্তরে অভিযোগ করা হলেও কোন দিকে কর্নপাত না করে সাহসিকতার সাথে নির্মান কাজ শেষ করেছেন। যার সুফল পাচ্ছেন আপামর পৌরবাসী।

টকটকিয়াগ্রামের সালাম,রবিউলসহ অনেকে জানান, বিগত ১৫ বছর ধরে একাধিকবার আবেদন করেও কোন কাজ হয়নি। ১৫ বছরে যা পায়নি মেয়র সাইদুর সেটা করে দিচ্ছেন। বর্ষা মৌসুমে বাড়ি থেকে বের হওয়া যেতনা। কিন্তু আরসিসি রাস্তা পাওয়াতে গ্রামবাসী আনন্দে আত্মহারা। আমরাও ভাবতে পারিনি এত টাকা ব্যয়ে মেয়র আরসিসি রাস্তা করে দিবেন। মাত্র দুই বছরের মধ্যে যে উন্নয়ন করেছেন, যা ১৫ বছরেও হয়নি। বিশেষ করে মুন্ডুমালা বাজারের তিনমাথা মোড়ে দিনভর জট লেগেই থাকত। কিন্তু মেয়র গোল চত্বর রাস্তা ও জাতির জনকের ম্যুরাল তৈরি করে চমক সৃষ্টি করেছেন। তিনি যে ভাবে উন্নয়ন শুরু করেছেন সেটা অব্যাহত থাকলে পৌরসভার গ্রামীন রাস্তার চেহার যেমন বদলে যাবে, ঠিক তেমনি ভাবে মানুষের জীবন মানে আমূল পরিবর্তন ঘটবে।

মেয়র সাইদুর রহমান বলেন, বাগমারা,টকটকিয়া, সাতপুকুরি, চরক ডাইংপাড়া ও চুনিয়াপাড়া আরসিসি রাস্তার ব্যয় প্রায় ৫ কোটি টাকা। আর মুন্ডুমালা বাজারে গোলচত্বর, রাস্তা ও ম্যুরাল নির্মানে প্রায় ৫৪ লাখ টাকা হবে। আ"লীগ সরকার ক্ষমতায় আছে বলেই উন্নয়ন করা সম্ভব হয়েছে এবং আগামীতে গ্রামের প্রতিটি রাস্তা আরসিসি করার সিদ্ধান্ত গ্রহন করা হয়েছে। এজন্য প্রায় ১০ কোটি টাকার প্রকল্প দেওয়া হয়েছে, হয়তো অল্পদিনের মধ্যে বরাদ্দ পেতে পারি বলে তিনি আশাবাদী।

আরও খবর



টানা চতুর্থবার বর্ষসেরা কিলিয়ান এমবাপ্পে

প্রকাশিত:সোমবার ২৯ মে ২০২৩ | হালনাগাদ:শনিবার ১০ জুন ২০২৩ | ১৪০জন দেখেছেন

Image

স্পোর্টস ডেস্ক:দুর্দান্ত মৌসুম কাটানো কিলিয়ান এমবাপ্পে টানা চতুর্থবারের মতো ফরাসি লিগ ওয়ানের বর্ষসেরা খেলোয়াড় নির্বাচিত হয়েছেন। পিএসজির এই ফরোয়ার্ড সতীর্থ লিওনেল মেসিকে হটিয়ে পুরস্কারটি জেতেন।

১৯৯৪ সাল শুরু হওয়া এই পুরস্কারে প্রথমবারের মতো কোনো ফুটবলার টানা চারবার জিতলেন। এর আগে পিএসজির সাবেক ফরোয়ার্ড জ্লাতান ইব্রাহিমোভিচ টানা তিনবার জিতেছিলেন।

এই মৌসুম শেষ হতে এখনো এক ম্যাচ বাকি। তবে ইতোমধ্যে ২৮ গোল নিয়ে সর্বোচ্চ গোলদাতার তালিকায় শীর্ষে আছেন এমবাপ্পে।

পুরস্কার জয়ের পর এই ফরোয়ার্ড বলেন, ‘এটা আনন্দের বিষয়, আমি সবসময়ই জিততে চাই, লিগের ইতিহাসে নিজের নাম লিখতে চাই। কিন্তু এতো দ্রুত জিততে পারব বলে আশা করিনি। আমি আগামী মৌসুমে আবার এখানে আসব।’

বর্ষসেরা কোচের পুরস্কার পেয়েছেন লসের ফ্রাঙ্ক হাইস। তিনি গত দুই দশকের মধ্যে প্রথমবার ক্লাবটিকে পয়েন্ট টেবিলের দ্বিতীয় স্থানে তুলে এনেছেন। সেরা গোলরক্ষকের পুরস্কারও গিয়েছে লসের ঘরে। এবারের আসরে ১৫ টি ম্যাচে কোনো গোল হজম করেননি ক্লাবটির গোলরক্ষক ব্রাইস সাম্বা।

এছাড়া সেরা তরুণ খেলোয়াড়ের পুরস্কার জেতেন পিএসজির লেফট-ব্যাক নুনো মেন্ডেস।


আরও খবর



বাংলাদেশের সঙ্গে সম্পর্ক আরও গভীর করতে চায় যুক্তরাষ্ট্র

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০৮ জুন ২০২৩ | হালনাগাদ:শনিবার ১০ জুন ২০২৩ | ৩৫জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:নিরাপত্তা ও বাণিজ্যসহ গুরুত্বপূর্ণ ক্ষেত্রে বাংলাদেশের সঙ্গে সম্পর্ক ও সহযোগিতা বাড়ানোর বিষয়ে নিজেদের আগ্রহ পুনর্ব্যক্ত করেছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র।

গতকাল বুধবার মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তরে নিয়মিত ব্রিফিংয়ে এ কথা বলেন মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তরের প্রধান উপ-মুখপাত্র বেদান্ত প্যাটেল।  

তিনি বলেন, ‘গত বছর আমরা একটি বার্ষিকী উদযাপন করেছি, যেটি বাংলাদেশের সঙ্গে আমাদের দ্বিপক্ষীয় সম্পর্ক সম্পর্কিত এবং ২০২৩ সালে আমরা সেই সম্পর্কটিকে আরও গভীর করার জন্য উন্মুখ। এমন বেশকিছু ক্ষেত্র রয়েছে যেগুলোতে আমরা এই সহযোগিতা আরও গভীর করতে চাই।

তিনি আরও বলেন, নিরাপত্তা সহযোগিতা ছাড়াও জলবায়ু, বাণিজ্য ও অন্যান্য অনেক বিষয়ে সহযোগিতা বাড়ানোর সম্ভাবনা রয়েছে।

বাংলাদেশে সন্ত্রাস দমনে মার্কিন সম্পৃক্ততা বাড়ানোর বিষয়ে জানতে চাইলে প্যাটেল বলেন,  ‘অবশ্যই এটি এমন একটি সমস্যা যা আমাদের কাছে গুরুত্বপূর্ণ। আমি এই বিষয়ে অনেক কথা বলেছি। তার মধ্যে একটি অবশ্যই ছিল বাংলাদেশের সঙ্গে নিরাপত্তা সহযোগিতার সুযোগ।


আরও খবর



তাপপ্রবাহ থাকবে আরও কয় দিন, জানাল আবহাওয়া অধিদপ্তর

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৬ জুন ২০২৩ | হালনাগাদ:শনিবার ১০ জুন ২০২৩ | ৪০জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:দেশের দুটি জেলার ওপর দিয়ে তীব্র তাপপ্রবাহ এবং ৫৭টি জেলার ওপর দিয়ে মৃদু থেকে মাঝারি ধরনের তাপপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে। দেশের ওপর দিয়ে চলমান এই তাপপ্রবাহ আরও পাঁচ থেকে ছয় দিন অব্যাহত থাকতে পারে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর।

আজ মঙ্গলবার সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত আবহাওয়ার পূর্বাভাসে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

আবহাওয়াবিদ মুহাম্মদ আবুল কালাম মল্লিক জানান, রাজশাহী ও পাবনা জেলার ওপর দিয়ে তীব্র তাপপ্রবাহ এবং চট্টগ্রাম, রাঙ্গামাটি, কুমিল্লা, চাঁদপুর, নোয়াখালী, বান্দরবান ও রাজশাহী বিভাগের অবশিষ্টাংশসহ ঢাকা বিভাগের ১৩টি, খুলনার ১০টি, বরিশাল বিভাগের ছয়টি, রংপুরের আটটি, ময়মনসিংহের চারটি ও সিলেটের চারটি জেলার ওপর দিয়ে মৃদু থেকে মাঝারি ধরনের তাপপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে এবং তা অব্যাহত থাকতে পারে।

তিনি আরও জানান, চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের দু’এক জায়গায় অস্থায়ীভাবে দমকা হাওয়াসহ বৃষ্টি অথবা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। এ ছাড়া দেশের অন্যত্র অস্থায়ীভাবে আংশিক মেঘলা আকাশসহ আবহাওয়া প্রধানত শুষ্ক থাকতে পারে।

আগামী দুই দিন চলমান তাপপ্রবাহ অব্যাহত থাকতে পারে বলেও জানান এই আবহাওয়াবিদ। এ ছাড়া আগামী পাঁচ দিনে দক্ষিণ পশ্চিম মৌসুমী বায়ু টেকনাফ উপকূল পর্যন্ত অগ্রসর হতে পারে।

গতকাল রোববার দেশে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ৪০ দশমিক ৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস রাজশাহীতে এবং ঢাকায় সর্বোচ্চ ছিল ৩৮ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

আবহাওয়ার সিনপটিক অবস্থায় বলা হয়, পশ্চিমা লঘুচাপের বর্ধিতাংশ পশ্চিমবঙ্গ এবং তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থান করছে।


আরও খবর



বাগেরহাট আদালত প্রাঙ্গনে বিচারপ্রার্থীদের বিশ্রামের জন্য নির্মান হচ্ছে “ন্যায় কুঞ্জ”

প্রকাশিত:শনিবার ০৩ জুন ২০২৩ | হালনাগাদ:শনিবার ১০ জুন ২০২৩ | ৮২জন দেখেছেন

Image

বাগেরহাট প্রতিনিধি: বাগেরহাট জেলা ও দায়রা জজ আদালতে আসা বিচার প্রার্থীদের বিশ্রামের জন্য “ন্যায় কুঞ্জ” নামের ভবন নির্মানের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। শনিবার (৩ জুন) দুপুরে বাগেরহাট জেলা ও দায়রা  জজ আদালত প্রাঙ্গণে এই ভবনের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন করেন হাইর্কোট বিভাগের বিচারপতি মোঃ খায়রুজ্জামান। এসময় সিনিয়র জেলা ও দায়রা জজ মোঃ রবিউল ইসলাম, নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইবুনাল-১ এর বিচারক মোঃ সাইফুল ইসলাম, নারী ও শশিু নির্যাতন দমন ট্রাইবুনাল-২ এর বিচারক মোঃ মঈন উদ্দিন, চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট মোঃ ওসমান গনী, পুলিশ সুপার কে এম আরফিুল হক উপস্থিত ছিলেন।আইন মন্ত্রনালয়ের র্অথায়নে গনর্পূত বিভাগ প্রায় ৫৩ লক্ষ টাকা ব্যয়ে  নির্মান করবে “ন্যায় কুঞ্জ” নামের এই বিশ্রামাগা ভবন। এই ভবনে ২ টি পয়নিস্কাশন কক্ষ, ১টি মাতৃদুদ্ধ কর্নার, ১টি ক্যান্টিন ও প্রয়োজনীয় ফ্যান থাকবে।

এক সাথে একই সময়ে ৮০ থেকে ১০০ জন বিশ্রাম নিতে পারবে। আগামী ডিসেম্বর মাসের মধ্যে এই কাজ শেষ হবে বলে জানিয়েছেন গনপূর্ত বিভাগ বাগেরহাটের নির্বাহী প্রকৌশলী মোঃ আবু জাফর সিদ্দিক। ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন শেষে বিচারপরতি মোঃ খায়রুজ্জামান বলেন, প্রধান বিচারপতি মহোদয়ের অভিপ্রায়ে দেশের প্রতিটি আদালতে “ন্যায় কুঞ্জ” নামের বিশ্রামাগার স্থাপন প্রকল্প গ্রহণ করা হয়েছে।  এর ধারাবাহিকতায় বাগেরহাট জেলা ও দায়রা জজ আদালতে “নায় কুঞ্জের” ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন করা হল। এই বিশ্রামাগারে বিচারপ্রার্থীরা যেমন বিশ্রাম নিতে পারবেন। তেমনি বিভিন্ন আদালতে বিচারাধীন মামলাসমূহ, বিশেষ করে পুরাতন দেওয়ানী ও ফৌজদারী মামলাসমূহ নিস্পত্তিতে ভূমিকা রাখবে বলে মনে করেন এই বিচারপতি। পরে তিনি জেলা ও দায়রা জজ আদালতের কনফারেন্স কক্ষে বাগরেহাট জেলা ও দায়রা জজ আদালত এবং ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে র্কমরত বিচার বিভাগীয় র্কমর্কতাদের সাথে বিচারাধীন মামলাসমূহ নিস্পত্তি করার বিষয়ে মতবিনিময় সভা করেন।


আরও খবর