Logo
আজঃ Wednesday ১০ August ২০২২
শিরোনাম
নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজারে ২৪৩৫ লিটার চোরাই জ্বালানি তেলসহ আটক-২ নাসিরনগরে বঙ্গ মাতার জন্ম বার্ষিকি পালিত রূপগঞ্জে বীর মুক্তিযোদ্ধাদের মধ্যে ডিজিটাল সনদ ও জাতীয় পরিচয়পত্র বিতরণ কাউন্সিলর সামসুদ্দিন ভুইয়া সেন্টু ৬৫ নং ওয়ার্ডে ভোটার তালিকা হালনাগাদ কর্মসুচীতে অংশগ্রহন করেন চান্দিনা থানায় আট কেজি গাঁজাসহ মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার নাসিরনগরে ছাত্রদলের বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ সমাবেশ নাসিরনগর বাজারে থানা সংলগ্ন আব্দুল্লাহ মার্কেটে দুই কাপড় দোকানে দুর্ধষ চুরি। ই প্রেস ক্লাব চট্রগ্রাম বিভাগীয় কমিটির মতবিনিময় সম্পন্ন ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ৬ কেজি গাঁজাসহ হাইওয়ে পুলিশের হাতে আটক এক। সোনারগাঁয়ে পুলিশ সোর্স নাম করে ডাকাত শাহ আলমের কান্ড

রাজধানীতে মাদকবিরোধী অভিযানে গ্রেফতার ৫৩

প্রকাশিত:Tuesday ০৭ June ২০২২ | হালনাগাদ:Wednesday ১০ August ২০২২ | ৬৯জন দেখেছেন
Image

রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায় মাদকবিরোধী অভিযান পরিচালনা করে বিক্রি ও সেবনের অভিযোগে ৫৩ জনকে গ্রেফতার করেছে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) বিভিন্ন অপরাধ ও গোয়েন্দা বিভাগ।

ডিএমপির নিয়মিত মাদকবিরোধী অভিযানের অংশ হিসেবে সোমবার (৬ জুন) ভোর ৬টা থেকে বুধবার (৭ জুন) ভোর ৬টা পর্যন্ত রাজধানীর বিভিন্ন থানা এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়।

এসময় গ্রেফতারদের কাছ থেকে ১৭৯৮ পিস ইয়াবা, ২১৮ গ্রাম হেরোইন, ২০ কেজি ৭৬৫ গ্রাম গাঁজা, ১৪০ বোতল ফেনসিডিল ও ১০ লিটার দেশি মদ উদ্ধার করা হয়।

গ্রেফতারদের বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে ৪২টি মামলা রুজু হয়েছে।


আরও খবর



মিষ্টিতে মরা মাছি, দইয়ে তেলাপোকার দৌড়াদৌড়ি

প্রকাশিত:Tuesday ১৯ July ২০২২ | হালনাগাদ:Monday ০৮ August ২০২২ | ৩৯জন দেখেছেন
Image

চট্টগ্রামের অভিজাত ও জনপ্রিয় মিষ্টান্ন উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠান ফুলকলির কারখানায় অভিযান চালিয়েছে জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর। মঙ্গলবার (১৯ জুলাই) দুপুর ১টার দিকে এ অভিযান চালানো হয়।

অভিযানে অধিদপ্তরের কর্মকর্তারা কারখানার ভেতর তৈরিকৃত মিষ্টিতে মরা মাছি এবং দইয়ে তেলাপোকার দৌড়াদৌড়ি দেখতে পান। পাশাপাশি কারখানার অভ্যন্তরে অপরিচ্ছন্নতা ও অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে খাদ্য তৈরির অভিযোগে ফুলকলিকে দেড় লাখ টাকা জরিমানা করা হয়।

বিষয়টি জাগো নিউজকে নিশ্চিত করেছেন জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর চট্টগ্রামের বিভাগীয় উপ-পরিচালক মোহাম্মদ ফয়েজ উল্যাহ।

jagonews24

তিনি বলেন, মঙ্গলবার দুপুরে বাকলিয়ায় ফুলকলির কারখানায় অভিযান চালানো হয়। অভিযানের সময় দেখা গেছে, তাদের মিষ্টিতে মরা মাছি, সরবরাহের জন্য রাখা দইয়ে তেলাপোকা হাঁটছে, দৌড়াচ্ছে। তাছাড়া অপরিচ্ছন্ন ফ্লোরে মুরগি কাটছেন কারখানার শ্রমিকরা।

মোহাম্মদ ফয়েজ উল্যাহ বলেন, নোংরা ও অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে খাবার তৈরি ও মজুতের অপরাধে তাদের এক লাখ ৫০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে। পাশাপাশি সতর্ক করা হয়েছে। ভবিষ্যতে এদের অভিযোগের প্রমাণ পাওয়া গেলে আরও কঠোর আইনগত পদক্ষেপ নেওয়া হবে।


আরও খবর



পরিমাপে কম দেওয়ায় ফিলিং স্টেশনকে লাখ টাকা জরিমানা

প্রকাশিত:Wednesday ০৩ August ২০২২ | হালনাগাদ:Sunday ০৭ August ২০২২ | ১৫জন দেখেছেন
Image

কিশোরগঞ্জের পাকুন্দিয়ায় পরিমাপে কম দেওয়ায় এক ফিলিং স্টেশনকে এক লাখ টাকা জরিমানা করা করেছে জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর।

বুধবার (৩ আগস্ট) দুপুরে পাকুন্দিয়া পৌর শহরের শ্রীরামদির আলুর স্টোর বাজারের এস রাফা ফিলিং স্টেশনকে এ জরিমানা করা হয়।

জেলা ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের সহকারী পরিচালক হৃদয় রঞ্জন বণিক বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, উপজেলার বিভিন্ন ফিলিং স্টেশনে অভিযানের সময় এস রাফা ফিলিং স্টেশনে পেট্রল, অকটেন এবং ডিজেল পরিমাপ করা হয়। এসময় দেখা যায়, প্রতি লিটার পেট্রলে ১৩০ মিলিলিটার, অকটেনে ১২০ মিলিলিটার এবং ডিজেলে ১৫০ মিলিলিটার ভোক্তাদের কম দেওয়া হচ্ছে। পরিমাপে কম দিয়ে কারচুপির করায় ওই ফিলিং স্টেশনকে এক লাখ টাকা জরিমানা করা হয়।

অভিযানে জেলা স্যানিটারি ইন্সপেক্টর এবং পুলিশের একটি দল ভোক্তা অধিকারকে সহযোগিতা করে।


আরও খবর



ঋণের দায়ে জর্জরিত, স্ত্রী-ছেলেকে নিয়ে গায়ে আগুন দিলেন ব্যবসায়ী

প্রকাশিত:Wednesday ২০ July ২০22 | হালনাগাদ:Monday ০৮ August ২০২২ | ৪৩জন দেখেছেন
Image

ফাঁকা রাস্তায় দাঁড়ানো গাড়িতে দাউদাউ করে আগুন জ্বলছে। ভিতরে এক ব্যক্তির মরদেহ। কিছু দূরেই অর্ধদগ্ধ অবস্থায় পড়ে আছেন এক নারী এবং এক তরুণ। মঙ্গলবার বিকেলে এমন একটি দৃশ্য দেখে শিউরে উঠেছিলেন পথচলতি মানুষ। তারাই পুলিশ ও দমকলে খবর দেন।

পুলিশ জানিয়েছে, আগুনে ঝলসে মৃত্যু হওয়া ব্যক্তির নাম রামরাজ ভাট, বয়স ৫৮ বছর। যে নারী এবং যুবককে অগ্নিদগ্ধ অবস্থায় উদ্ধার করা হয়েছে তারা ওই ব্যক্তির স্ত্রী নন্দিতা এবং ছেলে নন্দন। এই দুজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।

পুলিশ সূত্রের খবর অনুযায়ী, রামরাজ একজন ব্যবসায়ী। ঋণের দায়ে জর্জরিত হয়ে পড়েছিলেন তিনি। সেই দেনা মেটাতে না পেরে স্ত্রী-ছেলেকে নিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করেন। পরিকল্পিত ভাবেই পরিবার নিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করেছিলেন রামরাজ। তিনি ভারতের মহারাষ্ট্রের নাগপুরের বাসিন্দা।

দুপুরে একসঙ্গে খাওয়ার জন্য স্ত্রী এবং ছেলেকে হোটেলে নিয়ে যাওয়ার কথা বলেছিলেন রামরাজ। গাড়িতে করে ছেলে এবং স্ত্রীকে নিয়ে হোটেলের উদ্দেশে রওনা হন। কিন্তু হোটেলে না গিয়ে মাঝপথেই একটি ফাঁকা রাস্তায় গাড়ি থামান তিনি।

স্ত্রী এবং ছেলে তখনও আঁচ করতে পারেনি কেন গাড়ি থামালেন রামরাজ। এরপরই গাড়িতে পেট্রল ঢালতে শুরু করেন তিনি। তারপর নিজের গায়ে এবং স্ত্রী-ছেলের গায়েও পেট্রল ঢালেন। কিছু বুঝে ওঠার আগেই গাড়িসহ নিজেদের গায়ে আগুন লাগিয়ে দেন।

প্রত্যক্ষদর্শীদের দাবি, গাড়িটি দাউ দাউ করে জ্বলছিল। তারপরই দুজন আরোহী কোনো রকমে দরজা খুলে বেরিয়ে আসেন। গায়ের আগুন নেভান নিজেরাই। গুরুতর জখম অবস্থায় তাদের উদ্ধার করে পুলিশ।

পুলিশ জানিয়েছে, রামরাজের বাড়ি থেকে একটি সুইসাইড নোট পাওয়া গেছে। সেখানে তিনি দেনায় জর্জরিত হওয়ার কথা উল্লেখ করেছেন।

সূত্র: আনন্দবাজার পত্রিকা


আরও খবর



লক্ষ্মীপুরে স্ত্রী হত্যায় স্বামীর আমৃত্যু কারাদণ্ড

প্রকাশিত:Wednesday ২০ July ২০22 | হালনাগাদ:Sunday ৩১ July ২০২২ | ৩৩জন দেখেছেন
Image

লক্ষ্মীপুরের রামগতিতে মাথায় আঘাতের পর পুকুরের পানিতে ডুবিয়ে ফাতেমা আক্তারকে শ্বাসরোধে হত্যার দায়ে স্বামী মো. শাহজাহানের আমৃত্যু কারাদণ্ডাদেশ দিয়েছেন আদালত।

বুধবার (২০ জুলাই) দুপুরে জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মোহাম্মদ রহিবুল ইসলাম এ রায় দেন। দণ্ডপ্রাপ্ত শাহজাহান নোয়াখালীর চর জব্বার থানার চরজবলু ইউনিয়নের চরবাগ্যা গ্রামের জাহাঙ্গীর আলমের ছেলে।

লক্ষ্মীপুর জজ আদালতের সরকারি কৌঁসুলি (পিপি) জসিম উদ্দিন জাগো নিউজকে বলেন, আদালতে স্ত্রী হত্যায় শাহজাহান দোষী প্রমাণিত হয়েছে। বিচারক তাকে আমৃত্যু কারাদণ্ড দিয়েছেন। রায়ের সময় আসামি আদালতে উপস্থিত ছিলেন।

আদালত সূত্র জানায়, ২০১৭ সালের ২৮ জুলাই রামগতি উপজেলার চর আলগী ইউনিয়নের চর আলগী গ্রামের মৃত আকবর আলীর মেয়ে ফাতেমার সঙ্গে শাহজাহানের পারিবারিকভাবে বিয়ে হয়। তখন প্রায় ১ লাখ টাকার মালামাল কিনে শাহজাহানদের দেওয়া হয়। বিয়ের কিছুদিন যাওয়ার পর ফাতেমাকে তার শ্বশুরবাড়ির লোকজন যৌতুকের জন্য চাপ দেন। যৌতুক না পেয়ে বিভিন্ন সময় তাকে নির্যাতনও করা হয়।

একই বছর ২১ আগস্ট শাহজাহানকে নিয়ে ফাতেমা তার বড়বোন রাশেদা বেগমের বাড়িতে বেড়াতে যান। পরদিন সকালে স্বামী-স্ত্রী একসঙ্গে ওই বাড়ির পুকুরে গোসল করতে যান। এরপর থেকে দুজনের কেউই ঘরে ফিরে যাননি। রাশেদা তাদের খুঁজতে বের হন। খোঁজাখুঁজির একপর্যায়ে পুকুরের ভাসমান অবস্থায় ফাতেমার মরদেহ পাওয়া যায়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠায়। একইদিন ফাতেমার ভাই মো. মহিউদ্দিন বাদী হয়ে রামগতি থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন।

এদিকে ময়নাতদন্তের প্রতিবেদনে জানা যায়, প্রথমে ফাতেমার মাথায় আঘাত করা হয়। পরে তাকে পানিতে ডুবিয়ে হত্যা করা হয়েছে। ২০১৮ সালের ১৯ মার্চ মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা রামগতি থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মো. আবদুল হাই আদালতে শাহজাহানের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দাখিল করে। দীর্ঘ শুনানি ও ১০ জন সাক্ষীর সাক্ষ্যগ্রহণ শেষে আদালত এ রায় দেন।


আরও খবর



এবার রাজস্থানে পরীক্ষার্থীদের ওড়না সরানোর নির্দেশ

প্রকাশিত:Monday ২৫ July ২০২২ | হালনাগাদ:Wednesday ১০ August ২০২২ | ৬৫জন দেখেছেন
Image

ভারতের কেরালা রাজ্যে স্নাতকপূর্ব জাতীয় যোগ্যতা ও প্রবেশিকা পরীক্ষায় (এনইইটি) বসার আগে নারী পরীক্ষার্থীদের অন্তর্বাস খুলে কেন্দ্রে ঢুকতে বাধ্য করা হয়েছিল। এ ঘটনায় পাঁচ নারীকে গ্রেফতারও করে রাজ্য পুলিশ।

পরীক্ষায় অংশ নেওয়া প্রায় ১০০ ছাত্রী সেসময় অভিযোগ করেন পরীক্ষায় উপস্থিত হওয়ার আগে তাদের অন্তর্বাস খুলতে বাধ্য করা হয়েছিল। সেই বিতর্কের আগুনের আঁচ এখনো নেভেনি। এর মাঝে রাজস্থানে শুরু আরেক বিতর্ক। রাজস্থান এলিজিবিলিটি এক্সামিনেশন ফর টিচারের পরীক্ষায় নারী পরীক্ষার্থীদের ওড়না সরানো নিয়ে বিতর্ক শুরু হয়েছে। অসৎ উপায়ে যাতে কেউ পরীক্ষা না দিতে পারে, তা নিশ্চিত করতেই এমনটি করা হয়েছে বলে জানা গেছে।

তবে শুধু ওড়না সরানোই নয়, অনেক পরীক্ষার্থীর জামার হাতা কেটে নেওয়া হয়, কয়েকজনের সাড়ির সেফটিপিন খুলে নেওয়া হয়। কোনো কোনো পরীক্ষার্থীকে আবার ক্ষত থেকে ব্যান্ডেজ সরাতে বলা হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

তাছাড়া বহু পরীক্ষার্থীকে চুড়ি, মঙ্গলসূত্র, জুতো, চটিও খুলে ফেলতে বলা হয়। রাজস্থানের দুঙ্গারপুর জেলায় ‘রিট’-এর মোট ৩২টি পরীক্ষা কেন্দ্র ছিল। সেসব কেন্দ্রে পাওয়া গেছে এসব অভিযোগ।

সূত্র: হিন্দুস্তান টাইমস


আরও খবর