Logo
আজঃ সোমবার ২৪ জুন 20২৪
শিরোনাম
মতিউর ও তার স্ত্রী-সন্তানদের বিদেশ যেতে নিষেধাজ্ঞা তরুণরাই বদলে যাওয়া বাংলাদেশকে এগিয়ে নেবে: প্রধানমন্ত্রী নতুন সেনাপ্রধানের বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধাজ্ঞাপন ভূয়া সৈনিক পরিচয়ে বিয়ে করে শশুড় বাড়ী শিকলবন্দী জামাই! খাগড়াছড়িতে পুনাক কমপ্লেক্স এর উদ্বোধন করলেন: পার্বত্য প্রতিমন্ত্রী কুজেন্দ্র লাল এিপুরা হিজবুল্লাহর সঙ্গে যুদ্ধ বাধলে ইসরায়েলকে সমর্থন দেবে যুক্তরাষ্ট্র হজ চলাকালীন ১৩০১ জন হজযাত্রীর মৃত্যু: সৌদি আরব সেতু ভেঙ্গে নয়জন নিহতের ঘটনায় দুইটি তদন্ত কমিটি গঠন, মাইক্রোবাস উদ্ধার বর ও কনের বাড়ীতে শোকের মাতম রাশিয়ায় বন্দুকধারীদের ভয়াবহ হামলায় ১৫ পুলিশ সদস্য নিহত

পুলিশকে গুলি করে হত্যা: কনস্টেবল কাওসার ৭ দিনের রিমান্ডে

প্রকাশিত:রবিবার ০৯ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ | ৯৯জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:অভিযুক্ত পুলিশ সদস্য কাউসার আলী সহকর্মীকে গুলি করে হত্যার ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ৭ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।

রোববার (৯ জুন) ঢাকার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মো. শাকিল আহাম্মদ রিমান্ডের এ আদেশ দেন।

এদিন কাউসারকে আদালতে হাজির করে ১০ দিনের রিমান্ড আবেদন করে পুলিশ। শুনানি শেষে আদালত ৭ দিনের রিমান্ডের আদেশ দেন।

মামলার সূত্রে জানা গেছে, শনিবার (৮ জুন) রাত সাড়ে ১১টার দিকে রাজধানীর বারিধারায় ফিলিস্তিন দূতাবাসের সামনে নিরাপত্তার কাজে নিয়োজিত পুলিশ সদস্যকে গুলি করে হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে আরেক পুলিশ সদস্যের বিরুদ্ধে। নিহত পুলিশ সদস্য ডিপ্লোম্যাটিক সিকিউরিটি ডিভিশনে কর্মরত ছিলেন।

গুলির ঘটনায় সাজ্জাদ হোসেন নামে জাপান দূতাবাসের এক গাড়িচালক আহত হন। তাকে ইউনাইটেড হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় রোববার (৯ জুন) গুলশান থানায় মামলা করেছেন নিহত মনিরুল হকের ভাই মো. মাহাবুবুল হক।


আরও খবর



উলিপুরকে সিসিক্যামেরা'র আওতায় এনে উদ্বোধন

প্রকাশিত:শুক্রবার ১৪ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:শনিবার ২২ জুন ২০২৪ | ৫৯জন দেখেছেন

Image
সহিদুল আলম বাবুল, কুড়িগ্রাম ব্যুরো:কুড়িগ্রামের উলিপুর উপজেলাকে গুরুত্বপূর্ণ একটি শহর আখ্যায়িত করে জেলা পুলিশের ঐকান্তিক চেষ্টা ও উপজেলা বণিক সমিতির সহযোগিতায় সিসি ক্যামেরা বসানোর কাজ সমাপ্ত হয়েছে lআজ ১৪ ই জুন শুক্রবার উলিপুর গবার মোড়ে আনুষ্ঠানিকভাবে এসব সিসি ক্যামেরার উদ্বোধক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, রংপুর রেঞ্জের অতিরিক্ত ডিআইজি অপারেশন পংকজ চন্দ্র রায় পিপিএম lউদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, ২৭ কুড়িগ্রাম-৩  আসনের জাতীয় সংসদ সদস্য সৌমেন্দ্র প্রসাদ পান্ডে গবা lবিশেষ অতিথি ছিলেন, আল আসাদ  মোঃ  মাহফুজুল ইসলাম, পিপিএম-সেবা, পুলিশ সুপার কুড়িগ্রাম lসিসি ক্যামেরার উদ্বোধনি  অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন, জাতীয় সংসদ সদস্যের সহধর্মিনী কাবেরী পান্ডে,  মোঃ  গোলাম মর্তুজা, অফিসার ইনচার্জ উলিপুর থানা l

এসময় বক্তব্য রাখেন, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও বণিক সমিতির সদস্য আল মামুন সবুজ, বণিক সমিতির সহ-সভাপতি  ইকবাল হোসেন চাঁদ,আরো মঞ্চে উপস্থিত ছিলেন,  উলিপুর বণিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক মাইনুল ইসলাম দুলু, আব্দুল কাদের, উলিপুর মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার বীর মুক্তিযোদ্ধা  গোলাম মোস্তফা, নুরে আলম সিদ্দিকী, সরকার রহমান বুলেট প্রমুখ lউদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বক্তারা পর্যায়ক্রমে উলিপুর উপজেলার গুরুত্বপূর্ণ বিভিন্ন ইউনিয়নের হাট বাজারগুলোকে সিসি ক্যামেরার আওতায় আনার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন l

প্রধান অতিথি তাঁর বক্তব্যে বলেন, উলিপুরকে স্মার্ট উলিপুর হিসেবে গড়ে তুলতে তার ঐকান্তিক প্রচেষ্টা অব্যাহত থাকবে lতিনি আরো বলেন, স্মার্ট উলিপুর গড়তে এটি একটি মাত্র পদক্ষেপ lস্মার্ট স্টুডেন্ট, স্মার্ট সোসাইটি, স্মার্ট  ইকোনোমিসহ স্মার্ট উপজেলা ঘোষণা করতে যা যা করা দরকার সরকারের পাশাপাশি তিনি তার সাধ্যমত চেষ্টা করে যাবেন l

কুড়িগ্রাম জেলা পুলিশের আওতায় ইতোপূর্বে কুড়িগ্রাম সদর উপজেলা শহর তথা কুড়িগ্রাম জেলা সদর ও নাগেশ্বরী উপজেলা সদরে সিসি ক্যামেরা স্থাপনের কাজ শেষ হয়েছে lকুড়িগ্রামের নয়টি উপজেলার  মধ্যে তিনটি গুরুত্বপূর্ণ উপজেলা সিসি ক্যামেরার আওতায় এসেছে l
আগামীতে পর্যায়ক্রমের সবগুলি উপজেলাকে  সিসি ক্যামেরার আওতায় আনা হবে l

আরও খবর



মাগুরা জেলা আইন শৃংখলা কমিটির সভা অনুষ্ঠিত

প্রকাশিত:রবিবার ০৯ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ | ৮৩জন দেখেছেন

Image

স্টাফ রিপোর্টার মাগুরা থেকে:মাগুরা জেলা আইন শৃংখলা কমিটির সভা রবিবার সকালে জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত হয়। জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ আবু নাসের বেগ সভায় সভাপতিত্ব করেন। সভায় জেলার সার্বিক আইন শৃংখলা পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনা করেন পুলিশ সুপার মোঃ মশিউদৌলা রেজা, মাগুরা সদর উপজেলা পরিষদের  নব নির্বাচিত চেয়ারম্যান রানা আমীর ওসমান,  মাগুরা মম

সসরকারি মহিলা কলেজের সহযোগী অধ্যাপক কাজী কল্লোল,অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক সার্বিক প্রশান্ত কুমার বিশ্বাস, কমান্ডেন্ট আনসার ভিডিপি চন্দন দেবনাথ, বিভিন্ন রাজনৈতিক সামাজিক নেতৃবৃন্দ। বক্তরা জেলার আইন শৃংখলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখার ব্যাপারে সংশ্লিষ্ঠ কতৃপক্ষের প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহনের প্রতি গুরুত্ব আরোপ করা হয়। সভায় জেলার আইন শৃংখলা পরিস্থিতি যে কোনমূল্যে স্বাভাবিক রাখার দৃড় প্রত্যয় ব্যক্ত করা হয়।

আরও খবর



জয়পুরগাটে নিরাপদ মাছ চাষে মাটি ও পানি পরীক্ষা বিষয়ক ক্যাম্পেইন

প্রকাশিত:সোমবার ২৭ মে ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ | ১৩২জন দেখেছেন

Image
এস এম শফিকুল ইসলাম জয়পুরহাট প্রতিনিধিঃ"নিরাপদ মৎস্য ও মৎস্য পণ্য উৎপাদন ও বাজারজাতকরণ" শীর্ষক ভ্যালু চেইন উপ-প্রকল্পের আওতায় জয়পুরহাটে জেআরডিএমের কারিগরি ও পিকেএসএফের আর্থিক সহযোগিতায় জয়পুরহাট জেলার ক্ষেতলাল উপজেলায় মৎস্যচাষীদের বিনামূল্যে মাটি ও পানি পরীক্ষা এবং সার্বিক তথ্য সহায়তা প্রদান করা হয়েছে । রোববার বিকেলে জয়পুরহাটের ক্ষেতলাল উপজেলায়  পিকেএসএফের  আর্থিক সহায়তায় এবং  জেআরডিএমের বাস্তবায়নে ৫০ জন মৎস্য চাষীদের বিনামূল্যে মাটি ও পানি পরীক্ষাপূর্বক সার্বিক সেবা প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ক্ষেতলাল উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা কামরুজ্জামান  ।জেআরডিএম এর সিনিয়র  উপ-পরিচালক (কার্যক্রম) শওকত আলীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন, জেআরডিএম এর সহকারী পরিচালক (প্রকল্প) কৃষিবিদ এন এম ওয়ালিউজ্জামান ।

অনুষ্ঠানের শুরুতে উন্মুক্ত আলোচনায় মৎস্যচাষীদের সাথে মতবিনিময়ে ক্ষেতলাল উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা মাছ চাষিদের নিরাপদ মৎস্য ও মৎস্যপণ্য উৎপাদনে বিভিন্ন দিক নির্দেশনামূলক পরামর্শ প্রদান করেন এবং মাছ চাষের ক্ষেত্রে মাটি ও পানি পরীক্ষা সহ বিভিন্ন পরামর্শ পেতে
জেআরডিএম‌ কতৃক বাস্তবায়িত "মৎস্য সেবা ও পরামর্শ কেন্দ্রে" যোগাযোগ করার পরামর্শ প্রদান করেন।

উক্ত ক্যাম্পেইন অনুষ্ঠান শেষে ক্ষেতলাল উপজেলার মত একটি সেবা ও পরামর্শ কেন্দ্র এবং একটি মূল্য সংযোজিত মৎস্যপূর্ণ উৎপাদন এবং বাজারজাতকরণ প্রদর্শনীর কার্যক্রমের শুভ উদ্বোধন ঘোষণা করেন।অনুষ্ঠনাট সঞ্চালনা করেন ভ্যালু চেইন ফ্যাসিলিটেটর  কৃষিবিদ আল আমিন।

আরও খবর



বিপণী বিতানে ক্ষতিগ্রস্তরা দোকান পাবেন: প্রধানমন্ত্রী

প্রকাশিত:শনিবার ২৫ মে ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২১ জুন ২০২৪ | ১৩৯জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:প্রধানমন্ত্রী শেখা হাসিনা বলেন বিপণী বিতানে ক্ষতিগ্রস্তরা দোকান পাবেন। নতুন করে ব্যবসা শুরু করতে কোনো আর্থিক সহযোগিতার প্রয়োজন হলে তা সরকারে দেবে৷ এই মার্কেট নতুন করে বাঁচার শক্তি দেবে ব্যবসায়ীদের। এ সময় জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের আধুনিক নতুন ক্যাম্পাস গড়ে তোলা হবে বলেও জানান তিনি।

শনিবার (২৫ মে) বঙ্গবাজারে নতুন মার্কেটসহ চার প্রকল্পের উদ্বোধন শেষে এসব কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী।

এসময় নগরবাসীকে যেখানে সেখানে ময়লা-আবর্জনা না ফেলার আহ্বান জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, নির্দিষ্ট জায়গায় ফেলবেন। সিটি করপোরেশনকে দ্রুত ময়লাগুলো অপসারণের জন্য ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে। যেন শহর পরিস্কার পরিচ্ছন্ন থাকে।

এছাড়া আসন্ন ঈদুল আজহায় যেখানে সেখানে পশু কোরবানি না করার নির্দেশনা দিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, যত্রতত্র পশু কোরবানি দেবেন না৷ নির্দিষ্টস্থানে কোরবানি দেবেন। আগামীতে পশু কোরবানির জন্য আরও আধুনিক ব্যবস্থা রাখতে বলা হয়েছে সিটি করপোরেশনগুলোতে। শুধু সিটি করপোরেশন নয়, দেশব্যাপী আধুনিক ব্যবস্থা রাখতে হবে সেই নির্দেশনাও দেওয়া হয়েছে।

নগরবাসীর প্রতি আহ্বান জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, বিদ্যুৎ-পানি ঠিকমত পেত না নগরবাসী৷ স্বাস্থ্যকর পানি পেতে চাইলে, নিজের পানির ট্যাঙ্ক নিজেদেরই পরীক্ষা করে দেখতে হবে। মশার প্রজনন ক্ষেত্র যেন তৈরি না হয় সেদিকে খেয়াল রাখবেন৷ আগের চেয়ে বিদ্যুৎ ব্যবহার বেড়েছে।

অতিরিক্ত বিদ্যুৎ ব্যবহারে সাশ্রয়ী হওয়ার আহ্বান জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ঘর থেকে বের হওয়ার আগে লাইট-ফ্যান-চার্জারের সুইচ বন্ধ রাখবেন। চার্জারের লাল বাতি জ্বললেও বিল ওঠে। বিদ্যুৎ উৎপাদনের খরচ অবশ্যই আপনাকে দিকে দিতে হবে। না হলে বিদ্যুৎ আসবে কোথা থেকে।

সরকার প্রধান বলেন, পানি বিল কমাতে চাইলে পানি ব্যবহারেও সাশ্রয়ী হবেন। পানির কল ছেড়ে, শেভিং কিংবা কাপড় কাচা বা দাঁত মাজবেন না৷ পানি অপচয় করবেন না।

প্রকল্প-পরিকল্পনা নেওয়ার আগে জলাধারগুলো সংরক্ষণ রাখারা জন্য প্রকৌশলিদের আহ্বান জানান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। জলাশায় থাকলে বাতাস ঠাণ্ডা থাকে। প্রধানমন্ত্রী বলেন, এক সময় ঢাকায় অনেক খাল-পুকুর, জলাশয় ছিল। তখন ঢাকার পরিবেশও সুন্দর ছিল। বাতাস ঠাণ্ডা ছিল। কিন্তু এখন সেগুলো দালান-কালভার্ট নির্মাণে ভরাট হয়ে গেছে। যদিও কিছু খাল উদ্ধার করা হয়েছে।

পার্কগুলো যেন মাদকসেবীদের আখড়া না হয়। শোভাবর্ধন-পরিস্কার পরিচ্ছন্নতা বজায়ে রাখতে ভূমিকা রাখতে হব কাউন্সিলরদের-এ কথা জানিয়ে তিনি বলেন, মাদক থেকে দূরে থাকবেন সবাই।

এসময় প্রধানমন্ত্রী বলেন, সাজাপ্রপ্ত তারেক জিয়া এখন বিদেশ থেকে দেশে অশান্তির হুকুম দেয়। অস্ত্র চোরাচালানের রুট ছিল বাংলাদেশ৷ সেটা বন্ধ করা হয়েছে। আত্মমর্যাদা-আত্মসম্মান নিয়ে চলার সক্ষমতা অর্জন করতে হবে তরুণ প্রজন্মকে।


আরও খবর



নেপাল থেকে ৪০ মেগাওয়াট জলবিদ্যুৎ কিনবে সরকার

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১১ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:শনিবার ২২ জুন ২০২৪ | ৯৫জন দেখেছেন

Image

সরকার ভারতের জাতীয় গ্রিড ব্যবহার করে নেপাল থেকে পাঁচ বছরের জন্য ৪০ মেগাওয়াট জলবিদ্যুৎ আমদানি করবে । যার প্রতি ইউনিট ব্যয় হবে ৮ টাকা ১৭ পয়সা। মঙ্গলবার (১১ জুন) দুপুরে এ জলবিদ্যুৎ আমদানির অনুমোদন দিয়েছে পণ্য ক্রয়সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটি।

জানা গেছে, বিদ্যুৎ আমদানির বিষয়ে গত বছরের মে মাসে বাংলাদেশ ও নেপালের মধ্যে একটি চুক্তি হয়। চুক্তি অনুযায়ী নেপালের ত্রিশুলি প্রকল্প থেকে ২৪ মেগাওয়াট এবং অন্য একটি বিদ্যুৎকেন্দ্র থেকে ১৬ মেগাওয়াটসহ মোট ৪০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ বাংলাদেশে আসবে। ভারত হয়ে বাংলাদেশের ভেড়ামারায় জাতীয় গ্রিডে এ বিদ্যুৎ আসবে।

নেপালের এ বিদ্যুৎ আমদানির লক্ষ্যে গত ১০ সেপ্টেম্বর বৈঠকে বসে ‘বিদ্যুৎ খাত উন্নয়ন ও আমদানি’ সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটি। সাবেক অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল ওই কমিটির প্রধান ছিলেন। বৈঠকে আ হ ম মুস্তাফা কামাল নেপাল থেকে বিদ্যুৎ আমদানির ট্যারিফ জানতে চাইলে বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ জানান, নেপাল থেকে আমদানি করা বিদ্যুতের দাম দেশে কয়লাভিত্তিক উৎপাদিত বিদ্যুতের দামের তুলনায় কম পড়বে।

ওই বৈঠকের আলোচনায় উঠে আসে, নেপাল শীতকালে বাংলাদেশ কাছ থেকে বিদ্যুৎ নিতে আগ্রহী। শীতে নেপালে বিদ্যুতের চাহিদা বেশি থাকে, অন্যদিকে বাংলাদেশে চাহিদা কম থাকে


আরও খবর