Logo
আজঃ শনিবার ২৪ ফেব্রুয়ারী 20২৪
শিরোনাম

প্রতারণার মামলায় নোবেল রিমান্ডে

প্রকাশিত:শনিবার ২০ মে ২০23 | হালনাগাদ:শনিবার ২৪ ফেব্রুয়ারী 20২৪ | ২৮১জন দেখেছেন

Image

আদালত প্রতিবেদক: প্রায় দুই লাখ টাকা আত্মসাতের মামলায় গায়ক মাইনুল আহসান নোবেলের এক দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত। আজ শনিবার ঢাকার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আহমেদ হুমায়ুন কবীর এ রিমান্ডের আদেশ দেন।

আসামি নোবেলকে আদালতে হাজির করে তিন দিনের রিমান্ড আবেদন করেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ডিবি পুলিশের পরিদর্শক হুমায়ুন কবির। নোবেলের পক্ষে অ্যাডভোকেট আব্দুল্লাহ আল মামুন রিমান্ড বাতিল চেয়ে জামিন আবেদন করেন। শুনানি শেষে আদালত এক দিনের রিমান্ডের আদেশ দেন।

এর আগে আজ সকালে নোবেলকে গ্রেপ্তার করে ঢাকা মহানগর পুলিশের গোয়েন্দা শাখা (ডিবি)।

গত ১৬ মে শরীয়তপুরের ভেদরগঞ্জ হেডকোয়ার্টার পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের এসএসসি ব্যাচ-২০১৬-এর প্রতিনিধি মো. সাফায়েত ইসলাম বাদী হয়ে সিএমএম আদালতে অভিযোগ দেন। আদালত সেটি এজাহার হিসেবে গ্রহণ করতে মতিঝিল থানাকে নির্দেশ দেন। পরে ১৭ মে থানা মামলাটি এজাহার হিসেবে গ্রহণ করে।

মামলার অভিযোগে বলা হয়, গত ২৮ এপ্রিল শরীয়তপুরের ভেদরগঞ্জ হেডকোয়ার্টার পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের এসএসসি ব্যাচ-২০১৬-এর প্রথম পুনর্মিলনী আয়োজন করা হয়। সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে গান গাওয়ার জন্য মাইনুল আহসান নোবেলের সঙ্গে মোট ১ লাখ ৭৫ হাজার টাকা চুক্তি করা হয়। পরে নোবেলকে বিভিন্ন সময়ে ব্যাংক অ্যাকাউন্টসহ সর্বমোট ১ লাখ ৭২ হাজার টাকা দেওয়া হয়। তবে অনুষ্ঠানে না গিয়ে প্রতারণা করে এ অর্থ আত্মসাৎ করেন তিনি।

প্রসঙ্গত, নিজেকে ‘নোবেল ম্যান’ হিসেবে পরিচয় করানো নোবেল ব্যক্তিগত নানা আচরণের কারণে বিভিন্ন সময়ে আলোচিত হন। সম্প্রতি কুড়িগ্রামে একটি অনুষ্ঠানে গান গাইতে গিয়ে উচ্ছৃঙ্খল আচরণ করেন তিনি। কুড়িগ্রাম ফুলবাড়ী ডিগ্রি কলেজের ৫০ বছরপূর্তি উপলক্ষে আয়োজিত সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে নোবেলের আচরণে বিরক্ত হয়ে দর্শকরা জুতা ও পানির বোতল ছুড়ে মারেন শিল্পীর দিকে। ওই ঘটনাটি মুহূর্তেই সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হলে সমালোচনার ঝড় ওঠে।


আরও খবর



সরকারের উন্নয়ন কর্মকাণ্ডে জনসম্পৃক্ততা তৈরি করে দেশের উন্নয়নে ভূমিকা রাখছে বেতার : তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রী

প্রকাশিত:বুধবার ১৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৬৬জন দেখেছেন

Image

মারুফ সরকার,স্টাফ রিপোর্টার:সরকারের উন্নয়ন কর্মকাণ্ডে জনসম্পৃক্ততা তৈরি করে দেশের উন্নয়নে বাংলাদেশ বেতার প্রশংসনীয় ভূমিকা রাখছে বলে মন্তব্য করেছেন তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রী মোহাম্মদ আলী আরাফাত।

মঙ্গলবার বিকেলে রাজধানীর আগারগাঁওয়ে বাংলাদেশ বেতার সদর দপ্তর চত্বরে বিশ্ব বেতার দিবস ২০২৪ উপলক্ষ্যে আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রতিমন্ত্রী এ মন্তব্য করেন।

বাংলাদেশ বেতারের মহাপরিচালক রবীন্দ্রশ্রী বড়ুয়ার সভাপতিত্বে আলোচনা অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব মো. হুমায়ুন কবীর খোন্দকার এবং ইউনেস্কোর ঢাকা অফিস প্রধান ও বাংলাদেশ প্রতিনিধি ড. সুজান মারি ভাইজ। স্বাগত বক্তব্য প্রদান করেন বাংলাদেশ বেতারের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (অনুষ্ঠান) মো. ছালাহ্ উদ্দিন।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রতিমন্ত্রী আরও বলেন,  সুশাসন প্রতিষ্ঠা, গণতান্ত্রিক মূল্যবোধ চর্চা এবং সরকারের উন্নয়নমূলক কর্মকাণ্ডে জনসম্পৃক্ততা তৈরি করে দেশের উন্নয়নে বাংলাদেশ বেতার প্রশংসনীয় ভূমিকা রাখছে। উন্নত বাংলাদেশ বিনির্মাণে বাংলাদেশ বেতারের পাশাপাশি অন্যান্য বাণিজ্যিক এফ এম রেডিও ও কমিউনিটি রেডিওকে নিরলস কাজ করতে হবে।

প্রতিমন্ত্রী এ সময় আরও বলেন, তথ্য প্রযুক্তির উৎকর্ষের এ সময়ে বেতার বড় একটি চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি হয়েছে। বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের সাথে প্রতিযোগিতা করে বেতারকে এগিয়ে যেতে হচ্ছে। এসব সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে চটকদার ও সস্তা বিনোদনের পাশাপাশি মিথ্যা, বানোয়াট ও উদ্ভট সংবাদ প্রচার এবং অসত্য ও গুজব ছড়িয়ে দেওয়া হচ্ছে। এসব প্রতিকূলতা ও প্রতিযোগিতাপূর্ণ পরিস্থিতিতেও বেতার একটি নিজস্ব মানদণ্ড অনুসরণ করে বস্তুনিষ্ঠ ও নির্ভরযোগ্য অনুষ্ঠান ও সংবাদ প্রচার করছে।

তিনি আরও বলেন, মহান মুক্তিযুদ্ধসহ দেশের মানুষের সকল গণতান্ত্রিক আন্দোলনে বাংলাদেশ বেতার অবিস্মরণীয় ভূমিকা পালন করেছে। মহান মুক্তিযুদ্ধে রণাঙ্গনের যোদ্ধাদের সহযোগী শক্তি  হিসেবে স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্রের ভূমিকা সর্বজনবিদিত। তৎকালীন পাকিস্তানি স্বৈরশাসকের বাধা সত্ত্বেও সে সময় বাংলাদেশ বেতারের কর্মকর্তাদের দুঃসাহসী ভূমিকায় বেতারে বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণ প্রচার হয়। মুক্তিকামী বাঙালির পাশে থেকে দায়িত্ব পালনের জন্য জাতি বাংলাদেশ বেতারকে কৃতজ্ঞচিত্তে স্মরণ করে। 

 প্রতিমন্ত্রী আরও যোগ করেন, বর্তমান সরকার দেশে সুশাসন প্রতিষ্ঠা ও জাতীয় উন্নয়ন ত্বরাম্বিত করতে তথ্যের অবাধ প্রবাহে বিশ্বাস করে। দেশের গণমাধ্যমসমূহ এখন স্বাধীনভাবে কাজ করছে। 

এ বছরের বিশ্ব বেতার দিবসের প্রতিপাদ্য 'শতাব্দী জুড়ে তথ্য, বিনোদন ও শিক্ষা বিস্তারে বেতার'-এর গুরুত্ব অনুধাবন করে বেতারে কর্মরত কর্মকর্তা-কর্মচারী, শিল্পী-কলাকুশলীদের কাজ করে যাওয়ার জন্য এ সময় আহ্বান জানান প্রতিমন্ত্রী।

২০১১ সালের ০৩ নভেম্বর জাতিসংঘের শিক্ষা, বিজ্ঞান ও  সংস্কৃতি বিষয়ক সংস্থা (ইউনেস্কো)-এর ৩৬তম সম্মেলনে ১৩ ফেব্রুয়ারি বিশ্ব বেতার দিবস পালনের সিদ্ধান্ত গৃহিত হয়। ২০১২ সালের ১৩ ফেব্রুয়ারি প্রথমবারের মত বিশ্বব্যাপী পালিত হয় বিশ্ব বেতার দিবস। এরই ধারাবাহিকতায় এ বছর ত্রয়োদশ বিশ্ব বেতার দিবস পালন করা হয়েছে। দিবসটি উপলক্ষ্যে বাংলাদেশ বেতার বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা, শ্রোতা সম্মেলন, আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান আয়োজন করেছে।


আরও খবর



মধুপুরে প্রশাসনের তৎপরতা না থাকায় শহিদ দিবসে জাতীয় পতাকার অবমাননা

প্রকাশিত:বুধবার ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৫৯জন দেখেছেন

Image

বাবুল রানা বিশেষ প্রতিনিধি মধুপুর টাঙ্গাইলঃমধুপুরে প্রশাসনের তৎপরতা না থাকায় শহিদ দিবসে জাতীয় পতাকার অবমাননার ঘটনা ঘটেছে। জন সচেতনতা না থাকার কারণে এমন ঘটনা প্রতি বছরই ঘটে থাকে।

মধুপুর  বাসস্ট্যান্ডের অদুরে এনসিসি ব্যাংক,জনতা ব্যাংক, ইসলামী ব্যাংক, অগ্রণী ব্যাংক, মেডিল্যাব হাসপাতাল, সততা ডায়াগনস্টিক সেন্টার সহ বিভিন্ন মার্কেটে জাতীয় পতাকা অর্ধনমিত না রেখে টানানো হয়েছে জানালার গ্রিলের সাথে। এভাবে পতাকা টানানো জাতীয় পতাকার অবমাননার শামিল। প্রায় প্রতিষ্ঠানে সরকারি বিধি মোতাবেক পতাকা টানানো হচ্ছে না।

আজ ছিলো মহান একুশে ফেব্রুয়ারি ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস। ভাষা শহীদদের প্রতি বিনম্র শ্রদ্ধা নিবেদন করতে জাতীয় পতাকা অর্ধনমিত রাখার নিয়ম রয়েছে। কিন্তু নিয়ম না মেনে তারা তাদের ইচ্ছে মত  পতাকা উত্তলন করেছে যা আইন বহির্ভূত।

-খবর প্রতিদিন/ সি.ব

আরও খবর



শার্শায় অবৈধ ইট ভাটা জন্য মাটি বালু উত্তলনে পরিবেশ হুমকির মুখে

প্রকাশিত:বুধবার ১৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শনিবার ২৪ ফেব্রুয়ারী 20২৪ | ৬৭জন দেখেছেন

Image
ইয়ানূর রহমান:যশোরের শার্শায় অবাধে একের পর এক অবৈধ ইট ভাটা নির্মাণ আর বালু উত্তলনে হুমকির মুখে পড়েছে  পরিবেশের ভারসাম্য।  অবৈধ মাটি ও ইটবাহী যানবাহনের চাপায়  প্রতিনিয়ত জীবন ঝরেছে  মানুষের। এতে উপজেলা প্রশাসনের  বিরুদ্ধে ক্ষোভ জানিয়েছেন ভুক্তভোগীরা। এদিকে বছরের পর বছর এ অবস্থা শার্শার সব কটি ইউনিয়নে বিরাজ করলেও টনক নড়েনি প্রশাসনের।  অভিযোগ রয়েছে সংশিষ্টদের  ঘুষ বানিজ্যে এর প্রতিকার হচ্ছেনা।  তবে উপজেলা প্রশাসন এসব কর্মকান্ডের বিষয়টি স্বীকার করে বলছেন দ্রুত এসব অনিয়ম রোধে আরো শক্তভাবে  কাজ  করবেন তিনি।

ভুক্তভোগী শার্শা উপজেলার বাসিন্দা ঢাকা বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী নাহিদ হাসান নিপুন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাকে উদ্দেশ্যে করে বলেন, অবৈধ ইট ভাটাগুলো একটা নিয়ন্ত্রণে আনা যায় কিনা একটু দেখেন!  পিচের পাঁকা রাস্তা! অল্প বৃষ্টি হলে রাস্তার বেহাল অবস্থা হয়ে যায়। ইটভাটাগুলো বন্ধ করতে না পারলেও তাদের গাড়ি থেকে পরা কাদা মাটি থেকে অন্তত রাস্তাগুলো পরিষ্কার রাখার একটু ব্যবস্থা করেন। এলাকার হাজার হাজার মানুষ প্রতিদিন কষ্ট পাচ্ছে। কাদা শুকালে এমন ধূলা উড়ে যে ঐ এলাকায় চলাচল করা যায় না। এটা করতে পারলে হাজার হাজার মানুষ মন থেকে আপনার জন্য দোয়া করবে। 

এ বিষয়ে অভিজ্ঞ একজন প্রভাষক মনির হোসেন বলেন, কৃষি জমির পাশে  ইট ভাটা থাকলে ফসলের  উৎপাদন ক্ষমতা কমে যায় ও জীব বৈচিত্র ক্ষতির মুখে পড়ে। এছাড়া নিয়ন না মেনে বালু উত্তোলনে যে কোন সময় ভুমি ধসের ঘটনাও  ঘটতে পারে। একারণে ইট ভাটা নির্মাণ বা বালু উত্তোলনের ক্ষেত্রে নিয়ম মানতে হবে।

উপজেলা সূত্রে জানা গেছে গত ১২ ডিসেম্বর নয়ন কুমার রাজবংশী উপজেলা নির্বাহী অফিসার হিসাবে যোগদান করলেও এখন পর্যন্ত কোন অবৈধ স্থাপনা, অবৈধ কর্মকান্ডের বিরুদ্ধে তিনি কোন অভিযান পরিচালনা করেননি। অভিযোগ আছে প্রভাবশালীরা উপজেলা প্রশাসনকে ম্যানেজ করে দেদারছে বালু, মাটি উত্তোলন, ইটভাটা, করাতকল, ক্লিনিক পরিচালনা করে আসছে। শার্শা উপজেলা ব্যাপী অবাধে চলছে অবৈধ ১৯টি ইটভাটা। অনুসন্ধানে জানা গেছে ১৯টি ইটভাটার না আছে পরিবেশ ছাড়পত্র, না আছে জেলা প্রশাসনের অনুমোদন। এরপরও শার্শায় কোন অদৃশ্য শক্তিতে এসব অবৈধ ইটভাটাগুলোর বিরুদ্ধে কোনো ব্যবস্থা নিচ্ছে না প্রশাসন। একাধিক ভাটা আছে সরকারি স্কুল ও আবাসিক এলাকার মধ্যে। গত বছর ১৩ নভেম্বর হাইকোর্ট দেশের সব অবৈধ ইটভাটার কার্যক্রম বন্ধে জেলা প্রশাসকদের ব্যবস্থা নিতে আদেশ দেন। হাইকোর্টের নির্দেশের পর দেশের বিভিন্ন স্থানে যখন অবৈধ ইটভাটার বিরুদ্ধে অভিযান চললেও শার্শা উপজেলাতে চিত্র ভিন্ন। এখানে প্রশাসন অবৈধ ইটভাটা বন্ধে কোন ব্যবস্থাই নিচ্ছে না। এছাড়াও আবাসিক এলাকার মধ্যে অবৈধ করাতকল থাকলেও কোন ব্যবস্থা নিচ্ছে না উপজেলা প্রশাসন। উপজেলা ব্যাপি চলছে মাটি বালু উত্তোলনের মহাউৎসব কোন অভিযান না থাকার কারনে কৃষি জমি থেকে প্রথমে গভীর করে মাটি উত্তোলন করে ইটভাটার চাহিদা মিটাচ্ছে। হাওর বাওর ও গভীর পুকুর থেকে দেদারছে চলছে বালু উত্তোলন।  

বেনাপোলের  বাসিন্দা ফারুক আহম্মেদ জানান,অনেক বছর যাবৎ বাহাদুরপুর রোড়ে আবাসিক এলাকার প্রানকেন্দ্রে অবস্থিত আলামিন স-মিল চালানোর কারনে স-মিলের বিকট শব্দ ও কাঠের গুড়ার কারনে অতিষ্ট এলাকাবাসী। একাধিকবার পৌরমেয়র সহ উপজেলা প্রশাসনের নিকট লিখিত অভিযোগ দিয়েও কোন প্রতিকার পাননি। 

ভুক্তভোগী শার্শার বাহাদুরপুর ইউনিয়নের বাসিন্দা ইসমাইল হোসেন জানান, সজনের ঘেরের পাশে ফসলি জমি থেকে বালু উত্তোলন করে বাড়ির পাশ দিয়ে দিনে ও রাতে দেদারছে বালুবাহী ট্রাক্টর-ট্রলি চলাচলের ফলে ধুলাবালির কারনে অতিষ্ট গ্রামবাসি। রাতেও ঘুমাতে পারছেন না এমনকি স্কুল পড়ুয়া ছেলে মেয়েরা পড়ালেখায় ব্যাপক বিঘ্ন ঘটছে। উপজেলা প্রসাশনের কোন তদরকি না থাকায় সাধারন মানুষ ব্যাপক ভোগান্তির শিকার হচ্ছে।

বাহাদুরপুর ইউনিয়নের প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের গুরুত্বপূর্ণ স্থান বাহাদুরপুর বাঁওড় থেকে জনসম্মুখে মেইন রডের সাথে ব্রীজের পাশে দেদারসে বালু উত্তোলন করে স্তুপ করে রাখা হয়েছে। কিন্তু দেখার কেউ নেই।

এছাড়াও শার্শা উপজেলার গোগা ইউনিয়ন, কায়বা ইউনিয়ন, পুটখালী ইউনিয়ন, বাঁগআচড়া ইউনিয়ন, লক্ষণপুর ইউনিয়ন, শার্শা ইউনিয়ন, উলশী ইউনিয়ন সহ বিভিন্ন স্থানে অবাধে মাটি এবং বালু উত্তোলন করার একাধিক অভিযোগ থাকলেও নেই কোন কার্যকরী পদক্ষেপ। 

এবিষয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নয়ন কুমার রাজবংশীকে জিজ্ঞেস করা হলে তিনি বলেন, আমিও এমন কয়েকটি অভিযোগ পেয়েছি এবং কয়েকটি ইটভাটার সাথে কথা বলেছি তারা জানিয়েছেন বর্তমানে লাইসেন্স বন্ধ থাকায় তারা লাইসেন্স করতে পারছেন না। আর মাটি এবং বালুর সুনির্দিষ্ট অভিযোগ থাকলে সেটা সহকারী ভূমি কর্মকর্তাকে জানাবেন। এগুলো দেখার জন্য তিনি আছেন।

তথ্য বলছে, গত ৫ বছরে মাটি ও বালুবাহী অবৈধ যানবাহনের চাপায় ১০ জনেরও বেশি নিহত হয়েছে। যার অধিকাংশ রয়েছে শিশু। এছাড়াও দূর্ঘটনায় আহত হয়েছেন অনেকেই।  এদের মধ্যে আপাতত পাওয়া কয়েকজন নিহতের পরিচয় পাওয়া গেছে। তাদের মধ্যে রয়েছেন, ২০২৪ সালের ২৮ জানুয়ারি শার্শার পাচভুলোট গ্রামের আবু বক্কর ছিদ্দিকের ছেলে মিজানুর রহমান নিহত হয়। গত  বছরের  ১৩ সেপ্টম্বর শার্শার উলাশী গ্রামের মনির ছেলে আব্দুর রহমান মাটির টলি চাপায় নিহত হয়। ১৯ আগস্ট শার্শার উত্তর বুরুজবাগান গ্রামের মোকসেদ আলীর ছেলে  খোরশেদ আলী ইঞ্জিন চালিত অবৈধ নসিমন চাপায় নিহত হয়। ২০২১ সালের ২২ মে শার্শার সেতাই গ্রামে মাটি বোঝায় ট্রাকটরের চাপায় হাসান আলীর ছেলে বিপ্লব হোসেন নামের এক যুবক ২০২১,সালের ১৪ ডিসেম্বর শার্শার কন্যাদহ গ্রামের কোরবান আলীর ৪ বছরের শিশু সন্তান তামিম ইকবাল বালুবোঝাই ট্রাকের চাপায় নিহত হয়। ২০২০ সালের ১২ ফেব্রুয়ারী শার্শার রামপুর গ্রামের শরিফুল ইসলামের শিশু সন্তান মাটিবাহী ট্রাকটরের ঢাক্কায় নিহত হয়। ২০১৮ সালের ৯ ডিসেম্বর শার্শার বসতপুর গ্রামের জতিন দাসের ৭ বছরের শিশু সন্তান সোহাগ দাস মাটিবাহী ট্রাকের চাপায় নিহত হয়। এসময় এলাকার ক্ষুব্ধ জনতা ট্রাকটিতে আগুন লাগিয়ে দেই।

আরও খবর



সিরাজগঞ্জে মাকে হত্যার দায়ে পুত্র-পুত্রবধূর মৃত্যুদন্ড

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৮০জন দেখেছেন

Image
রাকিব সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধি:সিরাজগঞ্জের কাজীপুরে মা কে হত্যার দায়ে পুত্র ও পুত্রবধূর মৃত্যুদণ্ড রায় দিয়েছে আদালত 

মঙ্গলবার (১৩ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে সিরাজগঞ্জ অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ ৩য় আদালতের বিচারক কানিজ ফাতেমা এ আদেশ দেন।মামলার অভিযুক্ত আসামীরা হলেন, কাজীপুর উপজেলার দক্ষিণ রেহাইগুরিবেড় গ্রামের মৃত মকছেদ আলী মন্ডলের ছেলে আব্দুল সামাদ( ৫৭) ও স্ত্রী রাশিদা খাতুন (৫০)।

আদালতের পাবলিক প্রসিকিউটর (পিপি) শামসুল আলম এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

মামলার সূত্রে জানা যায়, সিরাজগঞ্জের কাজীপুর উপজেলার দক্ষিণ রেহাইগুরিবেড় গ্রামে আব্দুস সামাদের সাথে তার বৃদ্ধ মা ফাতেমা বেগম একই বাড়ীতে বসবাস করতো । প্রতিদিনের ন্যায় খাওয়া দাওয়া শেষ করে তার কক্ষে ঘুমিয়ে পড়ে পরে দিন ২০১৬ সালের ১ই নভেম্বর ভোরে ফাতেমা বেগমের মৃতদেহ গলাকাটা রক্তমাখা অবস্থায় পড়ে থাকতে দেখে স্বজনরা। পরে তার ছোট ভাই মনছের আলীকে ফোন করে জানায়। এ খবর পেয়ে মনছের আলী বাড়িতে গিয়ে দেখে তার মা গলাকাটা রক্তামাখা অবস্থায় পড়ে আছে। পরে পুলিশকে খবর দিলে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে নিহতের লাশ উদ্ধার করে ও একটি ছুরি জব্দ করে । পরে আব্দুল সামাদের ভাই আব্দুল রহিম কাজীপুর থানায় উপস্থিত হয়ে অজ্ঞাতনামা আসামি করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। পরে দীর্ঘদিন তদন্ত শেষে ও ১৪ জন সাক্ষীর সাক্ষ্য গ্রহণ শেষ আজ মঙ্গলবার দুপুরে আসামিদের উপস্থিতিতে বিচারক এ রায় প্রদান করেন। আসামীদেরকে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে

আরও খবর



জাতীয় সংসদের নবনিযুক্ত হুইপদের প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২৫ জানুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ১১৮জন দেখেছেন

Image
মারুফ সরকার, স্টাফ রিপোর্টার:চিফ হুইপ নূর-ই-আলম চৌধুরীর নেতৃত্বে জাতীয় সংসদের নবনিযুক্ত হুইপগণ আজ বিকেলে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে তাঁর সরকারি বাসভবন গণভবনে সৌজন্য সাক্ষাৎ করেছেন।

বৈঠকের শুরুতে তারা প্রধানমন্ত্রীকে ফুলের তোড়া দিয়ে শুভেচ্ছা জানান।হুইপ ইকবালুর রহিম, আবু সাঈদ আল মাহমুদ স্বপন, মাশরাফি বিন মুর্তজা, মো. নজরুল ইসলাম বাবু ও সাইমুম সরওয়ার কামাল এসময় উপস্থিত ছিলেন। প্রধানমন্ত্রীর সহকারী প্রেস সচিব এবিএম সরওয়ার-ই-আলম সরকার সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান।

আরও খবর