Logo
আজঃ সোমবার ২৪ জুন 20২৪
শিরোনাম

প্রধানমন্ত্রীর ১৫ বছরের উন্নয়নমূলক কর্মকান্ড তুলে ধরেছেন নাজির মিয়া

প্রকাশিত:সোমবার ৩০ অক্টোবর ২০২৩ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ | ৩৯১জন দেখেছেন

Image

আব্দুল হান্নান,নাসিরনগর ব্রাহ্মণবাড়িয়া:আসন্ন দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে কেন্দ্র করে ব্রাহ্মণবাড়িয়া -১সংসদীয় ২৪৩ নাসিরনগর আসনের ১৩ টি ইউনিয়নের ১০৮ টি গ্রামের ১১৭  ওয়ার্ডে দিন রাত চষে বেড়াচ্ছেন আওয়ামীলীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী কেন্দ্রীয় কৃষকলীগের অর্থ বিষয়ক সম্পাদক আলহাজ্ব মোঃনাজির মিয়া ও তার,সহধর্মীনী উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ সভাপতি রোমা আক্তার,তার শ্যালক উপজেলা ছাত্রলীগের সিনিয়র সহ সভাপতি জি এম আরমান নুর সহ তাদের সফর সঙ্গীরা।

আলহাজ্ব নাজির মিয়া বলেন তিনি জননেত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে নাসিরনগর উপজেলার বিভিন্ন পাড়া মহল্লায় গিয়ে জনগণের সামনে বর্তমান শেখ হাসিনা সরকারের বিগত ১৫ বছরের উন্নয়নের ফিরিস্তি জনতার সামনে তুলে ধরেছেন।এভাবে  তিনি নেতাকর্মীদের উজ্জীবিত করেছেন।গতকাল ৫ নং ফান্দাউক ইউনিয়ের ৫নং ওয়ার্ডের মাধ্যমে তার ১১৭ উঠান বৈঠকের কাজ সম্পন্ন করেছেন।

উন্নত, সমৃদ্ধ ও স্মার্ট নাসিরনগর গড়তে আগামী দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ব্রাহ্মণবাড়িয়া-১ নাসিরনগর আসন থেকে আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন চান তিনি।প্রধানমন্ত্রীর স্মার্ট বাংলাদেশ গড়তে নৌকা মার্কায় ভোট প্রদানের জন্য অনুরোধ করে চলেছেন তিনি। তৃণমূলের কর্মী সমর্থকরাও চায় নাজির মিয়া কে দলীয় মনোনয়ন দেয়া হউক। কর্মী সমর্থকরা মনে করেন তিনি সংসদ সদস্য হলে নাসিরনগরের উন্নয়নে সর্বাত্মক ভূমিকা রাখবেন। কর্মী সমর্থকদের কাছে নাজির মিয়া একজন ত্যাগী ও পরীক্ষিত নেতা হিসেবে পরিচিত।

তিনি স্কুল জীবন থেকেই ছাত্র রাজনীতিরসাথে জড়িয়ে পড়েন।১৯৭৯ সালে যখন দশম শ্রেনীর ছাত্র ছিলেন নাজির মিয়া তখন বঙ্গবন্ধুর প্রতি অকৃত্তিম ভালোবাসা আর শ্রদ্ধা থেকে ছাত্রলীগের রাজনীতি শুরু করেন। ১৯৮১ সালে ইউনিয়ন শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি নির্বাচিত হন। তারপর ১৯৮৬ সালে ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি এবং ১৯৯১ সালে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি নির্বাচিত হন। ১৯৯৪ সালে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর উপজেলা আওয়ামীলীগের সদস্য নির্বাচিত হন৷নাজির মিয়া ২০০৩ সালে বাংলাদেশ কৃষকলীগ, কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য নির্বাচিত হয়ে কৃষকলীগের রাজনীতিতে সক্রিয় হন।

পরপর ২০০৬ ও ২০১৯ সালে টানা দুই মেয়াদে বাংলাদেশ কৃষকলীগ, কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির অর্থ বিষয়ক সম্পাদক নির্বাচিত হয়ে কৃষকদের কল্যানে কাজ শুরু করেন।তার প্রয়াত পিতা হাজী মো. অলি মিয়া ও পরিবারের সকলেই বঙ্গবন্ধুর রাজনীতির সঙ্গে জড়িত। তার সহধর্মিনী নাসিরনগর উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি রোমা আক্তার। তার শশুর প্রয়াত বীরমুক্তিযোদ্ধা ক্যাপ্টেন (অবঃ) গোলাম নূর ছিলেন নাসিরনগর উপজেলা আওয়ামী লীগের প্রতিষ্ঠাতা সাধারণ সম্পাদক। এছাড়া তিনি নাসিরনগর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যানও ছিলেন। আওয়ামীলীগ ও মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সন্তান হওয়ার কারণে দলের দূর্দিনের সময় তিনি ও তার পরিবারের লোকজন বিভিন্ন সময় জুলুম ও নির্যাতনের শিকার হয়েছেন।

বঙ্গবন্ধুর রাজনীতির প্রতি প্রচণ্ড আত্ববিশ্বিাসী এ কৃষকলীগ নেতা। তিনি  জনসেবায় নিজেকে সব সময় জড়িয়ে থাকতে পছন্দ করেন। বর্তমানে স্থানীয় এমপি থাকা সত্বেও এলাকার মানুষ বিভিন্ন বিষয়ে সহযোগিতা নিতে আসেন তার কাছে । সদালাপি ও ধৈর্য্য ধরে মানুষের কথা শোনেন, সেই কারণে মানুষের কাছে তিনি একজন পরিচ্ছন্ন মানুষ হিসেবে পরিচিত। তিনি সকলের আগ্রহের কেন্দ্রবিন্দুতে থাকেন সবসময়।বাংলাদেশ কৃষকলীগ,কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির অর্থ বিষয়ক সম্পাদক আলহাজ্ব মো. নাজির মিয়া বলেন, বঙ্গবন্ধু কণ্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা সরকারের নেত্রীত্বে বাংলাদেশ মধ্যম আয়ের দেশের মর্যদা অর্জন করেছে।জননেত্রী শেখ হাসিনা সরকারের ১৪ বছরের উন্নয়ন কর্মকান্ড গুলো জনগনের সামনে তুলে ধরছেন তিনি।

সেই সঙ্গে জাতির পিতার স্বপ্নের সোনার বাংলাদেশ গড়তে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেত্রীত্বে ২০৪১ সালের মধ্যে ভবিষ্যৎ প্রজন্মের জন্য একটি উন্নত-সমৃদ্ধ, সুন্দর ও বাসযোগ্য বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠিত করতে তরুণদের কাজে লাগাতে চান তিনি। গড়তে চান স্মার্ট নাসিরনগর। দলের দু:সময়ে নাসিরনগর উপজেলা আওয়ামীলীগের হাল ধরে দলকে ঐকবদ্ধ করেছেন তিনি।করোনা কালিন সময়ে তিনি নিজের জীবনের মায়া ত্যাগ করে নিজস্ব অর্থায়নে নাসিরনগর উপজেলার অন্তত ৬ হাজার কর্মহীন, দরিদ্র, দিনমজুর ও অস্বচ্ছল ব্যক্তিদের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী নিয়ে ছুটে গিয়েছেন।

দলের নিবেদিত ও ত্যাগী নেতাকর্মীদের পাশে দাড়িয়েছেন।বঙ্গবন্ধু কণ্যা জননেত্রী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করতে আগামী দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে দলের ত্যাগী ও পরীক্ষিত হিসেবে তাকেই নেত্রী মনোনীত করবেন বলে আশাবাদী তিনি ও তার সমর্থকরা। তাকে দলের মনোনয়ন দিলে দলের ত্যাগী ও তৃণমূল নেতাকর্মীদের ঐক্যবদ্ধ করে দলমত নির্বিশেষে সবাই তাকে বিপুল ভোটে সংসদ সদস্য হিসেবে নির্বাচিত করবেন বলে তিনি আশাবাদী।

উপজেলা আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, কৃষকলীগ, ছাত্রলীগ, সেচ্ছাসেবকলীগসহ আওয়ামীলীগের  অঙ্গ-সংগঠনের সমর্থকরা রয়েছেন তার সঙ্গে। তারা মনে করছেন, আগামী দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে একজন যোগ্য প্রার্থী হিসেবে তিনি নৌকার প্রতীক নিয়ে আসতে পারবেন। কারণ তারা বলছেন, অন্য প্রার্থীর থেকে  নাজির মিয়ার কোনও বিকল্প নেই। নাসিরনগরের উন্নয়নে নাজির মিয়ার মত যোগ্য ব্যক্তি প্রয়োজন বলে জানান তার  কর্মী সমর্থক ও দলীয় লোকজন।

-খবর প্রতিদিন/ সি.ব


আরও খবর



মিরসরাইয়ে জিপিএ-৫ প্রাপ্তদের সংবর্ধনা দিল সাইন্স পয়েন্ট

প্রকাশিত:সোমবার ২৭ মে ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ | ১৪৮জন দেখেছেন

Image

এম আনোয়ার হোসেন, মিরসরাই (চট্টগ্রাম) প্রতিনিধি:এবার মিরসরাই উপজেলার বিভিন্ন বিদ্যালয়সমূহ থেকে জিপিএ-৫ প্রাপ্ত ৬০ শিক্ষার্থীকে সংবর্ধনা দিয়েছে সাইন্স পয়েন্ট। শনিবার বিকেলে উপজেলা অডিটরিয়ামে অনুষ্ঠিত এই অনুষ্ঠান মিরসরাই সরকারি মডেল উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক ইমরান খানের সঞ্চালনায় এবং সাইন্স পয়েন্টের পরিচালক আসিফুল ইসলাম সৈকত ও সাহাদাত শাকিলের সার্বিক তত্বাবধানে অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী ও ইউসামের সাধারণ সম্পাদক শরীফুল হাসান তুহিন, মিরসরাই স্টুডেন্ট এসোসিয়েশন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের সাধারণ সম্পাদক মোস্তাঈন বিল্লাহ, সাংগঠনিক সম্পাদক মিনহাজ সাকিল, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক শিক্ষার্থী আব্দুল ওয়াহেদ লিপু, বর্তমান শিক্ষার্থী মোহাম্মদ ইলিয়াস, আবু নাসিম প্রমুখ। এসময় শিক্ষার্থীদের বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির বিষয়ে বিভিন্ন দিকনির্দেশনা দেওয়া হয়। এরপর জিপিএ-৫ প্রাপ্ত শিক্ষার্থীদের মাঝে সার্টিফিকেট ও ক্রেস্ট তুলে দেন অতিথিরা। এমন আয়োজনে খুশি সংবর্ধিত শিক্ষার্থীরা। পরে কেক কেটে সাইন্স পয়েন্টের নতুন শাখা হিসাবে বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি কোচিং ভার্সিটি পয়েন্ট’র আনুষ্ঠানিক যাত্রা শুরু করা হয়।

সাইন্স পয়েন্টের পরিচালক আসিফুল ইসলাম সৈকত জানান, ২০২০ সাল থেকে সাইন্স পয়েন্টের যাত্রা শুরু হয়। এসএসসি ও এইচএসসির শিক্ষার্থীদের পরিপূর্ণ বেসিক গঠনে এবং মিরসরাইয়ের শিক্ষার্থীদের একটি ভালো মানের শিক্ষা সেবা দিতে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষার্থী দ্বারা পরিচালিত কোচিং সেন্টারের কার্যক্রম চালিয়ে আসছি। পাশাপাশি শিক্ষার্থীদের জন্য সাইন্স পয়েন্টের সহযোগী প্রতিষ্ঠান ভার্সিটি পয়েন্ট চালু করেছি। এ, বি, সি ও ডি ইউনিট নিয়ে যাত্রা ভার্সিটি পয়েন্টের এবং বিজ্ঞান, ব্যবসায় শিক্ষা, মানবিক শাখার শিক্ষার্থীদের পরিপূর্ণ ভার্সিটি প্রস্তুতি গড়ে দিতে এটির পথ চলা। বাংলাদেশের খ্যাতনামা পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের দিয়ে পাঠদানসহ থাকছে নিয়মিত ক্লাস টেস্ট এবং বিষয়ভিত্তিক শিট প্রদান। আগামী ১ জুন থেকে এইচএসসি-২০২৬ ব্যাচের ভর্তি কার্যক্রম শুরু হবে।


আরও খবর



সোনারগাঁও প্রেস ক্লাব থেকে মাজহারুল স্থায়ী বহিষ্কার

প্রকাশিত:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ | ১৯জন দেখেছেন

Image
সোনারগাঁও সংবাদদাতা: নারী কেলেঙ্কারির ঘটনায় আদালতে দণ্ডিত হওয়ায় এবং সাংবাদিকতার নাম ভাঙিয়ে অনৈতিক ও শৃংখলা বহির্ভূত কর্মকাণ্ডে জড়িত থাকার অভিযোগে  আনন্দ টিভির সোনারগাঁও উপজেলা প্রতিনিধি মাজহারুল ইসলামকে সোনারগাঁও প্রেস ক্লাবের সদস্য পদ থেকে স্থায়ীভাবে বহিষ্কার করা হয়েছে। সোনারগাঁও প্রেস ক্লাবের এক বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, জনৈক মাসুদুর রহমান নামে এক ব্যক্তি অভিযোগ করেন আনন্দ টিভির সোনারগাঁও উপজেলা‌ প্রতিনিধি মাজহারুল ইসলাম তার স্ত্রীর সঙ্গে পরকীয়ায় লিপ্ত হয়ে প্রলোভন দেখিয়ে ভাগিয়ে নিয়ে যায় এবং অর্থ আত্মসাত করে। পরবর্তীতে এর বিচার চাইতে গেলেও তাকে বিভিন্নভাবে হুমকি দিয়ে ভয়ভীতি দেখায়। ঘটনায় মাসুদ প্রেস ক্লাবে অভিযোগ করার পাশাপাশি ২০২২ সালে আদালতে একটি মামলা করেন। ওই মামলায় নারায়ণগঞ্জের সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট চলতি বছরের মার্চ মাসে মাজহারুলকে এক বছরের কারাদণ্ড ও ৫ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।পাশাপাশি ২০২৩ সালের ৫ ফেব্রুয়ারি তার দ্বিতীয় স্ত্রী রওশন আরা শারীরিক ও মানসিক নির্যাতন এবং প্রতারণার আরেকটি অভিযোগ করেন মাজহারুলের বিরুদ্ধে।‌ ঐ ঘটনায় প্রেস ক্লাবের তদন্ত কমিটি করা হয়। তদন্তে অভিযোগের সত্যতা পায় তদন্ত কমিটি। এছাড়াও বিভিন্ন সময় সাংবাদিকতার প্রভাব খাঁটিয়ে এবং সোনারগাঁও প্রেস ক্লাবের নাম ভাঙিয়ে বিভিন্নস্থান থেকে টাকা নেওয়াসহ শৃংখলা বহির্ভূত কর্মকাণ্ডের অভিযোগে প্রেস ক্লাবের ৩০ মে কার্যনির্বাহী কমিটির সভায় তার সদস্য পদ বাতিলের সিদ্ধান্ত হয়।  

সোনারগাঁও প্রেস ক্লাবের ফেসবুক পেইজে দেওয়া বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, প্রেস ক্লাবের গঠনতন্ত্রের অনুচ্ছেদ ৩, ধারা ৪ এর ঙ অনুযায়ী সদস্য পদ বাতিল করা হয়েছে।

এ ব্যাপারে সোনারগাঁও প্রেস ক্লাবের সভাপতি এম এম সালাহ উদ্দিন বলেন, তার বিরুদ্ধে প্রেস ক্লাবের শৃঙ্খলা বহির্ভূত অভিযোগ পাওয়ায় এবং আদালতের দণ্ড থাকায় গঠনতন্ত্র অনুযায়ী ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে‌। সোনারগাঁও প্রেসক্লাব একটি ঐতিহ্যবাহী আদর্শ সাংবাদিক সংগঠন।  গঠনতন্ত্র অনুযায়ী এটি পরিচালিত হয়ে থাকে।  সাংবাদিকতা তথা সোনারগাঁও প্রেস ক্লাবের সুনাম ক্ষুন্ন হয় এমন কাউকেই প্রশ্রয় দেওয়া হবে না।

আরও খবর



গ্রিনকার্ড দেওয়ার প্রতিশ্রুতি ট্রাম্পের

প্রকাশিত:শনিবার ২২ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ | ৪৯জন দেখেছেন

Image

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:সাবেক প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প যুক্তরাষ্ট্রের আসন্ন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে জয়ী হলে যুক্তরাষ্ট্রের বিশ্ববিদ্যালয়গুলো থেকে স্নাতক ডিগ্রি সম্পন্ন করা বিদেশি শিক্ষার্থীদের গ্রিনকার্ড দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছেন। বৃহস্পতিবার (২১ জুন) এক পডকাস্টে এই প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন তিনি।

পডকাস্টে যুক্তরাষ্ট্রের ‍উচ্চ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে স্নাতক ডিগ্রি সম্পন্নের পর দেশটিতে বসবাসরত গ্রিনকার্ড প্রত্যাশী বিদেশিদের উদ্দেশে ট্রাম্প বলেন, ‘যা আমি করতে চাই এবং (নির্বাচিত হলে) যা আমি করব তা হলো, যেহেতু আপনারা এই দেশের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান থেকে স্নাতক ডিগ্রি সম্পন্ন করেছেন, আপনাদের এই ডিগ্রির অংশ হিসেবেই গ্রিনকার্ড এবং যুক্তরাষ্ট্রের নাগরিকত্ব আপনাদের প্রাপ্য।

গত বুধবার যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন ঘোষণা দেন, প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে জয়ী হলে অন্তত ১০ বছর ধরে যুক্তরাষ্ট্রে বসবাস করছেন এবং মার্কিন নাগরিককে বিয়ে করেছেন এমন ৫ লাখ অভিবাসনপ্রত্যাশীকে নাগরিকত্ব দেবেন তিনি। এছাড়া ২১ বছরের কম বয়সী শিক্ষার্থীদেরও নাগরিকত্ব প্রদানের ঘোষণা দিয়েছেন বাইডেন।তার এই ঘোষণার ২৪ ঘণ্টারও কম সময়ের মধ্যে অনলাইনে এই পডকাস্ট পোস্ট করে ট্রাম্পের নির্বাচনী প্রচারণা শিবির।পডকাস্টে তাকে প্রশ্ন করা হয়, ‘আপনি কি সেরা এবং উজ্জলতম মেধাসম্পন্ন মানুষদের যুক্তরাষ্ট্রে জড়ো করার প্রতিশ্রুতি দিচ্ছেন?

উত্তরে ট্রাম্প হ্যা-সূচক উত্তর দেন।যুক্তরাষ্ট্রে স্থায়ীভাবে বসবাস ও কাজ করার অনুমতির হলো গ্রিন কার্ড। এর মাধ্যমেই দেশটিতে নাগরিক হওয়ার পথ সুগম হয়। ট্রাম্পের এই প্রস্তাবের কারণে প্রতি বছর নতুন নাগরিকত্বের আবেদন উল্লেখযোগ্য হারে বাড়বে। অভিবাসন ইস্যুতে নিজের কঠোর অবস্থান থেকে সরে এলেন তিনি। ধারণা করা হচ্ছে, এতে রিপাবলিকান পার্টিতেও তার গুরুত্ব বাড়বে।

সূত্র : এএফপি।


আরও খবর



৩০০ প্লাটুন বিজিবি মোতায়েন

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২৮ মে ২০২৪ | হালনাগাদ:শনিবার ২২ জুন ২০২৪ | ১৩৮জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:তৃতীয় ধাপে সারাদেশে ৩০০ প্লাটুন বিজিবি মোতায়েন করা হয়েছে,ষষ্ঠ উপজেলা পরিষদ নির্বাচন অবাধ, সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণভাবে আয়োজনের লক্ষে আইনশৃঙ্খলা রক্ষায়।

মঙ্গলবার (২৮ মে) বিজিবির এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, বুধবার (২৯ মে) অনুষ্ঠিতব্য উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের তৃতীয় ধাপে স্থানীয় বেসামরিক প্রশাসনকে সহায়তার জন্য ‘ইন এইড টু দ্য সিভিল পাওয়ার’ এর আওতায় ২৭ মে থেকে ৩১ মে পর্যন্ত নির্বাচনি এলাকায় শান্তিশৃঙ্খলা রক্ষার্থে বিজিবি মোবাইল ও স্ট্রাইকিং ফোর্স হিসেবে কাজ করবে।

আগামীকাল বুধবার তৃতীয় ধাপে ১০৯টি উপজেলায় নির্বাচন হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু সোমবার ঘূর্ণিঝড় রিমালের কারণে ১৯ উপজেলার ভোট স্থগিত করা হয়। এর ফলে ৯০ উপজেলা পরিষদের নির্বাচন হবে কাল।


আরও খবর



ঢাকা-বেইজিং ফ্লাইট চালু জুলাইয়ে

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৪ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ | ১২৪জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:ঢাকা-বেইজিং রুটে চলতি বছরের জুলাইয়ে চালু হচ্ছে সরাসরি বিমানের ফ্লাইট।

সোমবার (৩ জুন) বিকেলে বাংলাদেশ প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (বুয়েট) এবং চাইনিজ এন্টারপ্রাইজেস অ্যাসোসিয়েশন ইন বাংলাদেশের যৌথ গবেষণা চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে এ তথ্য জানান বাংলাদেশে নিযুক্ত চীনা রাষ্ট্রদূত ইয়াও ওয়েন।

যৌথ গবেষণার মাধ্যমে স্মার্ট বাংলাদেশ গড়ার লক্ষ্যে বুয়েটের সঙ্গে চায়না বিজনেস এন্টারপ্রাইজ অব বাংলাদেশের এক সমঝোতা চুক্তি সই হয়। এ সময় চলতি মৌসুমে বাংলাদেশ থেকে আম আমদানির কথাও জানানচীনা রাষ্ট্রদূত।

চীনা রাষ্ট্রদূত বলেন, বাংলাদেশের সামগ্রিক উন্নয়নে বরাবরই পাশে ছিল চীন। দক্ষ মানবসম্পদ তৈরি ও আগামীর স্মার্ট বাংলাদেশ গঠনে এই চুক্তি কার্যকরী ভূমিকা পালন করবে।

সময় বুয়েটের উপাচার্য সত্য প্রসাদ মজুমদার বলেন, প্রযুক্তির ব্যবহার বাড়ানো ও দক্ষ জনশক্তি তৈরিতে গুরুত্ব রাখবে এই চুক্তি।


আরও খবর