Logo
আজঃ শনিবার ২৪ ফেব্রুয়ারী 20২৪
শিরোনাম

প্রার্থিতা ফিরে পেয়ে উচ্ছ্বসিত চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহি

প্রকাশিত:সোমবার ১১ ডিসেম্বর ২০২৩ | হালনাগাদ:শনিবার ২৪ ফেব্রুয়ারী 20২৪ | ২০৫জন দেখেছেন

Image

মারুফ সরকার,স্টাফ রির্পোটার:দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশ নিতে আর কোনো বাধা থাকলো না চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহির। রিটার্নিং কর্মকর্তার সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে করা আপিলের শুনানি শেষে তার মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষণা করেছে নির্বাচন কমিশন।

সোমবার (১১ ডিসেম্বর) দুপুর ২টা ৪৩ মিনিটে নির্বাচন কমিশন ভবনের অডিটোরিয়ামে আপিল শুনানি শেষে প্রার্থিতা ফিরে পেতে তার আবেদন মঞ্জুর করে মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষণা করা হয়। আপিল শুনানিতে প্রধান নির্বাচন কমিশনার কাজী হাবিবুল আউয়ালসহ অন্য নির্বাচন কমিশনাররা এই রায় ঘোষণা করেন।

আপিল শুনানিতে অংশ নিতে নির্বাচন ভবনে চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহি স্বতন্ত্র প্রার্থীর পক্ষে সাক্ষ্য দিতে ইসিতে ৭৬ বছরের বৃদ্ধা । মনোনয়ন বৈধতার বিষয়টি নিশ্চিত করে চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহি বলেন, বঙ্গবন্ধুকন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা স্বতন্ত্র প্রার্থীদের ওপেন করে দেওয়ার কারণেই আমি স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে নির্বাচন করছি। বাকিটা আল্লাহর ইচ্ছা। নির্বাচিত হলে কাঙ্ক্ষিত উন্নয়নবঞ্চিত  উপজেলাকে আরও এগিয়ে নেওয়ার জন্য আমি চেষ্টা করবো।


আরও খবর



এনার্জি গ্লোব ওয়ার্ল্ড অ্যাওয়ার্ড পেল হুয়াওয়ে

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ১০৯জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:বিশ্বের অন্যতম মর্যাদাপূর্ণ পরিবেশ বিষয়ক পুরস্কার ‘দ্য এনার্জি গ্লোব ওয়ার্ল্ড অ্যাওয়ার্ড’ অর্জন করেছে হুয়াওয়ে। স্বাশ্রয়ী শক্তি, স্থায়িত্ব এবং নবায়নযোগ্য উৎসের ওপর নির্ভরশীল প্রকল্পগুলোকে এই পুরস্কারের মাধ্যমে স্বীকৃতি দেয়া হয়। এনার্জি গ্লোব ফাউন্ডেশন, ইউনাইটেড নেশনস ইন্ডাস্ট্রিয়াল ডেভেলপমেন্ট অর্গানাইজেশন এবং অস্ট্রিয়ান ফেডারেল ইকোনমিক চেম্বারসহ বিভিন্ন সংস্থার একটি প্যানেল এই পুরস্কারটি প্রদান করে।

ইয়ানচেং লো-কার্বন অ্যান্ড স্মার্ট এনার্জি ইন্ডাস্ট্রিয়াল পার্ক প্রকল্পের জন্য হুয়াওয়েকে এই পুরস্কার দেয়া হয়েছে। হুয়াওয়ে এবং ইয়ানচেং পাওয়ার সাপ্লাই কোম্পানি অফ স্টেট গ্রিড জিয়াংসু এই প্রকল্প যৌথভাবে তৈরি করেছে।

সারা বিশ্বের ১৮০টি দেশ থেকে দুই হাজারেরও বেশি প্রকল্পের মধ্যে এই প্রকল্পকে পুরস্কারের জন্য নির্বাচিত করা হয়। নেট-জিরো কার্বন ইন্টেলিজেন্ট ক্যাম্পাস প্রকল্প নামে পরিচিত এই প্রকল্পটি পঁচাশি শতাংশ নবায়নযোগ্য শক্তি উৎপন্ন করতে সক্ষম। প্রচলিত থার্মাল প্রকল্পের সমতুল্য বিদ্যুৎ উৎপাদন করলে এটি বছরে ত্রিশ লক্ষ কিলোওয়াট-ঘন্টা  শক্তি সংরক্ষণ করে এবং পাঁচ হাজার ছয়শ টন কার্বন নির্গমন হ্রাস করে।

এই পুরস্কারের পাশাপাশি হুয়াওয়ে প্রকল্পটির জন্য ওয়ার্ল্ড সামিট ইনফরমেশন সোসাইটি ২০২২-এর চ্যাম্পিয়নের পুরস্কারও অর্জন করেছে। প্রকল্পটির পাঁচটি মূল ভিত্তি রয়েছে - নেট-জিরো কার্বন শক্তি সরবরাহ, বহুমাত্রিক শক্তির সমন্বয়, সর্বোচ্চ শক্তি ব্যবহারের দক্ষতা, ডিজিটাল সক্ষমতা এবং বহুদেশীয় উদ্ভাবন। নবায়নযোগ্য শক্তি, কেন্দ্রীভূত এবং ডিজিটাল সরবরাহ ব্যবস্থা, হাইড্রোজেন এবং শক্তি সঞ্চয় ব্যবস্থা এই প্রকল্পের উদ্ভাবনী প্রক্রিয়ায় যুক্ত করা হয়েছে। শক্তি উৎপাদন, কার্বন নিঃসরণ রোধ এবং ডিজিটাল ইন্টিগ্রেশনের চ্যালেঞ্জ মোকাবেলার জন্য কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা, ইন্টারনেট অফ থিংস ও ক্লাউড কম্পিউটিং ব্যবহারের মাধ্যমে হুয়াওয়ে একটি ত্রি-মাত্রিক ব্যবস্থা তৈরি করেছে, যা টেকসই এবং কার্যকর প্রমাণিত হয়েছে।

প্রকল্পটি টিথ্রি ট্রান্সফরমেশন মডেল ও নেট-জিরো কার্বন ইন্টেলিজেন্ট এনার্জি সিস্টেম প্রয়োগ করেছে। কার্বন ভারসাম্যপূর্ণ পরিবেশ তৈরি ও কার্বন-নিরপেক্ষ হওয়ার লক্ষ্য অর্জনে বিভিন্ন দেশকে এই ধরণের প্রযুক্তি সহযোগিতা করবে।


আরও খবর



আমবয়ানের মধ্য দিয়ে শুরু ইজতেমার প্রথম পর্ব

প্রকাশিত:শুক্রবার ০২ ফেব্রুয়ারী 2০২4 | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ১১০জন দেখেছেন

Image

তরিকুল ইসলাম:আমবয়ানের মধ্য দিয়ে শুরু ইজতেমার প্রথম পর্ব,টঙ্গীর তুরাগ তীরে চলছে মুসলিম বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহত্তম জমায়েত বিশ্ব ইজতেমা।শুক্রবার (২ ফেব্রুয়ারি) ফজর নামাজের পর পাকিস্তানের মাওলানা আহমদ বাটলার আমবয়ানের মধ্য দিয়ে বিশ্ব ইজতেমার প্রথম পর্ব শুরু করেন।আর তা তাৎক্ষণিকভাবে বাংলায় তরজমা করছেন মাওলানা নুরুর রহমান।

আজ ভোরে এ তথ্যটি নিশ্চিত করেছেন বিশ্ব ইজতেমার প্রথম পর্বের মিডিয়া সমন্বয়ক মো. হাবিবুল্লাহ রায়হান।

মো. হাবিবুল্লাহ রায়হান তিনি বলেন, মাওলানা আহমদ বাটলা সাহেবের বয়ানের পর সকাল ১০টায় তালিম করবেন পাকিস্তানের মাওলানা জিয়াউল হক সাহেব। তার তালিমের পরপরই দেশের বৃহত্তম জুমার নামাজের প্রস্তুতি শুরু করা হবে। শুক্রবার জুমার নামাজ পড়াবেন মাওলানা জুবায়ের সাহেব।

মো. হাবিবুল্লাহ রায়হান তিনি আরও বলেন, জুমার নামাজের পর বয়ান করবেন জর্ডানের মাওলানা খতিব সাহেব, আছরের নামাজের পর বাংলাদেশের হাফেজ মাওলানা জুবায়ের সাহেব ও মাগরিবের পর ভারতের মাওলানা আহমদ লাট সাহেব বয়ান করবেন।

বিশ্ব ইজতেমা ময়দানসহ আশপাশের এলাকা শীত ও বৃষ্টিসহ নানা ভোগান্তি উপেক্ষা দেশবিদেশের বিভিন্ন প্রান্তের মুসল্লিদের পদচারণায় মুখর হয়ে উঠেছে। ইজতেমার প্রথম পর্ব শেষ হবে আগামী রোববার আখেরি মোনাজাতের মধ্য দিয়ে। ৯ ফেব্রুয়ারি দ্বিতীয় পর্বের ইজতেমা শুরু হবে। ইতোমধ্যে মুসল্লির আগমনে কানায় কানায় পূর্ণ হয়ে গেছে ইজতেমা ময়দান।

মো. মাহবুব আলম গাজীপুর মেট্টোপলিটন পুলিশের কমিশনার বলেন, বিশ্ব ইজতেমা ঘিরে পর্যাপ্ত নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। ইজতেমায় গাজীপুর মেট্টোপলিটন পুলিশের ছয় হাজার সদস্যের পাশাপাশি র‌্যাব, ঢাকা মেট্টোপলিটন পুলিশ এবং সাদা পোশাকে গোয়েন্দা বাহিনীর পর্যাপ্ত সংখ্যক আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্য দায়িত্ব পালন করছেন।

উল্লেখ্য,ইজতেমায় এ পর্যন্ত তিনজন মুসল্লির মৃত্যু হয়েছে। গত বুধবার দুজন ও বৃহস্পতিবার একজন মুসল্লির মৃত্যু হয়।


আরও খবর



ফুলবাড়ী সদরদপ্তরে ৭ কোটি ৫৯ লক্ষ ৩৬ হাজার টাকার অবৈধ্য মাদক ধ্বংস

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২০ ফেব্রুয়ারী ২০24 | হালনাগাদ:শনিবার ২৪ ফেব্রুয়ারী 20২৪ | ৫২জন দেখেছেন

Image

ফুলবাড়ী, দিনাজপুর প্রতিনিধি ;ফুলবাড়ী ২৯ বিজিবি এবং দিনাজপুর ৪২বিজিবি কর্তৃক মাদক বিরোধী অভিযানে ফুলবাড়ী সদরদপ্তরে ৭ কোটি ৫৯ লক্ষ ৩৬ হাজার  ৪৪৬টাকার মাদক ধ্বংস করণ অনুষ্ঠিত হয়। গতকাল মঙ্গলবার বিকেল সাড়ে ৩টায় ফুলবাড়ী বিজিবি সদরদপ্তরে ১৬ ডিসেম্বর ২০২২হতে ৩১শে জানুয়ারী ২০২৪ পর্যন্ত, দিনাজপুর ৪২ বিজিবি কর্তৃক ১১ মে ২০২২ হতে ৩১ জানুয়ারী ২০২৪ ইং পর্যন্ত মালিক বিহীন অবস্থায় ফুলবাড়ী ২৯ বিজিবির প্রশিক্ষণ মাঠে মাদক ধ্বংস কার্যক্রম সম্পন্ন করা হয়।

এতে প্রধান অতিথি হিসাবে উপ¯ি’ত থেকে বক্তব্য রাখেন উত্তর ও পশ্চিম রিজিয়ন কমান্ডার বিগ্রেডিয়ার জেনারেল খোন্দকার শফিকুজ্জামান, পিএসসি। তিনি তার বক্তব্যে বলেন, জাতীর জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর কন্যা মাননীয় প্রধান মন্ত্রীর প্রদত্ত জিরো টলারেন্স নীতি নিশ্চিত প্রকল্পে বিজিবি বদ্ধপরিকর। সীমান্তে বিজিবি জীবনের ঝুকি নিয়ে মাদক নিমূল অভিযান অব্যহত রেখেছেন। সকলের সহযোগীতা ছাড়া মাদক নিমূল কোন ভাবে সম্ভব নয়। তবু আমরা এই সমাজকে সুন্দর রাখতে মাদক নির্মূল করে যাচ্ছি।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন, কর্নেল রাশেদ, আজগর পিএসসি, জি, সেক্টর কমান্ডার, দিনাজপুর, লে: কর্ণেল মোঃ আহসান উল ইসলাম পিএসসি, অধিনায়ক দিনাজপুর ৪২ বিজিবি ব্যাটালিয়ন, লে কর্ণেল এবিএম জাহিদুল করিম, অধিনায়ক ফুলবাড়ী ২৯ বিজিবি ব্যাটালিয়ন, ফুলবাড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ মোস্তাফিজুর রহমান।

এছাড়ও উপস্থিত ছিলেন, বিজিবি’র উর্ধ্বতন কর্মকর্তা, র‌্যাব কর্মকর্তা, গোয়েন্দা কর্মকর্তা, জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট, মাদক নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের প্রতিনিধিসহ প্রশাসনের কর্মকর্তা, স্কুল কলেজের শিক্ষার্থী ও শিক্ষকবৃন্দ এবং প্রিন্ট মিডিয়ার সাংবাদকিবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। আয়োজনে ছিলেন, ফুলবাড়ী ২৯ বিজিবি ব্যাটালিয়ন।


আরও খবর



র‍্যাব একবছরে কিশোর গ্যাংয়ের ৬০০ জনকে গ্রেপ্তার করেছে

প্রকাশিত:শনিবার ১৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৬৩জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:একবছরে বিভিন্ন অপরাধ যেমন- চাঁদাবাজি, মাদক, ছিনতাইসহ বিভিন্ন সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডে জড়িত থাকার অপরাধে কিশোর গ্যাংয়ের প্রায় ৬০০ জনকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‍্যাব)। রাজধানীর মোহাম্মদপুর, আদাবর ও হাজারীবাগ এলাকা থেকে এদের গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

শনিবার (১৭ ফেব্রুয়ারি) সকালে মোহাম্মদপুরে র‍্যাব-২ এর কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে ব্যাটালিয়নের কমান্ডিং অফিসার আনোয়ার হোসেন খান এ তথ্য দেন।

এর আগে, শুক্রবার রাজধানীর মোহাম্মদপুর এলাকায় অভিযান চালিয়ে ৩৯ জন কিশোরকে গ্রেপ্তার করে র‍্যাব। এ বিষয়ে সংবাদ সম্মেলন করে এসব তথ্য দেন তিনি।

গ্রেপ্তারদের ৩৯ জনের মধ্যে রয়েছে ‘পাটালি’ গ্রুপের ৫ জন, ‘লেভেল হাই’ গ্রুপের ৬ জন, ‘লও ঠেলা’ গ্রুপের ৫ জন। এছাড়া, এদের প্রত্যেকটি গ্রুপে ১৮ থেকে ২০ জন সদস্য থাকে বলেও নিশ্চিত করেছেন আনোয়ার হোসেন খান।


আরও খবর



বড়পুকুরিয়া কয়লাখনি এলাকার ক্ষতিগ্রস্তদের সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ২১জন দেখেছেন

Image

ফুলবাড়ী, দিনাজপুর প্রতিনিধি:দিনাজপুরের বড়পুকুরিয়া কয়লাখনির ভূগর্ভ থেকে কয়লা উত্তোলনের কারণে পার্শ্ববর্তী বৈগ্রাম-কাশিয়াডাঙ্গা গ্রামের ঘরবাড়ী ফাটলে এলাকাবাসী ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ায় ক্ষতিপূরণের দাবিতে সংবাদ সম্মেলন করেছে বড়পুকুরিয়া কয়লা খনি ক্ষতিগ্রস্তদের দাবি আদায় বাস্তবায়ন কমিটি।

গতকাল বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১০টায় বৈগ্রাম-কাশিয়াডাঙ্গা ক্ষতিগ্রস্থদের দাবি আদায় বাস্তবায়ন কমিটির কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে সংগঠনের সহ-সভাপতি গোলাম মোস্তফা লিখিত বক্তব্যে জানান, কয়লা খনির কারণে ঘরবাড়ীতে ফাটল সৃষ্টি হলে গত ২২/০১/২০২৪ তারিখে আমরা সংগঠনের পক্ষথেকে বড়পুকুরিয়া কয়লা খনি কর্তৃপক্ষের নিকট লিখিত অভিযোগ জানাই, আমাদের ক্ষতিগ্রস্ত এলাকাগুলো সার্ভারের মাধ্যমে পদক্ষেপ না নিলে এবং ক্ষতিপূরণের দাবিতে সংবাদ সম্মেলন বিক্ষোভ মিছিল সহ বৃহত্তর আন্দোলন গড়ে তোলা হবে। কিন্তু খনি কর্তৃপক্ষ এখনো কোনো পদক্ষেপ গ্রহণ করেননি। আমরা ছয় দফা চুক্তির কথা বলেছিলাম সেই ছয় দফা চুক্তি এখনো বাস্তবায়ন হয়নি। ছয় দফা চুক্তির মধ্যে রয়েছে কর্তৃপক্ষের সমঝোতা চুক্তি মোতাবেক ক্ষতিগ্রস্ত পরিবার হতে চাকরি দেওয়ার কথা, ক্ষতিগ্রস্ত এলাকার দুইটি গ্রামের বাড়ী ঘর ফাটল কাঁপুনি ঝুঁকিপূর্ণভাবে পরিবার পরিজন নিয়ে বসবাস করছে তাদের দ্রুত পুনর্বাসন করতে হবে, ক্ষতিগ্রস্ত এলাকার ভূমিহীন প্রতিটি পরিবারকে মাইনিং সিটি অথবা উন্নত মানের বাসস্থান তৈরি করে দিতে হবে, ক্ষতিগ্রস্তদের অবশিষ্ট ক্ষতিপূরণের টাকা দিতে হবে ক্ষতিগ্রস্তদের সুপ্রিয় প্রাণীর ব্যবস্থা করতে হবে এবং মসজিদ মন্দির স্কুল কলেজ ও হাসপাতাল তৈরি করে দিতে হবে ক্ষতিগ্রস্তদের যাদের জমি থেকে কয়লা উত্তোলন করা হচ্ছে তাদেরকে কয়লা উৎপাদনের বোনাস পাসেন্ট দিতে হবে।

কিন্তু গত ৩০ বছরে কয়লাখনি কর্তৃপক্ষ বৈগ্রাম সহ অন্যন্যা গ্রামগুলির অফুরন্ত যে ক্ষতি হয়েছে তার কিছুই পায় নি। খনি কর্তৃপক্ষ এই এলাকার মানুষকে বোকা বানিয়েছে। তাই আজকের এই সংবাদ সম্মেলনে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা ও জ্বালানী ও খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রীর কাছে ন্যায় দাবী জানাচ্ছি। এ সময় উপস্থিত ছিলেন সংগঠনের বৈগ্রাম-কাশিয়াডাঙ্গা ক্ষতিগ্রস্থদের দাবি আদায় বাস্তবায়ন কমিটির সদস্য মোঃ দেলোয়ার হোসেন, মোঃ সাদেকুল ইসলাম,কোষাধ্যক্ষ সফিকুল ইসলাম, সদস্য মোঃ মেনাজুল হক সহ সংগঠনের শতাধিক সদস্য।সংবাদ সম্মেলনে বক্তারা বলেন যদি আমাদের দাবিসমূহ বাস্তবায়ন না হয় তাহলে আমরা কঠোর আন্দোলন করতে বাধ্য হব ।


আরও খবর