Logo
আজঃ রবিবার ১৪ জুলাই ২০২৪
শিরোনাম
মুক্তিযোদ্ধার নাতি-নাতনিরা পাবে না তো রাজাকারের নাতিরা পাবে? কর্মীদের দক্ষ করে বিদেশে পাঠাতে হবে : প্রতিমন্ত্রী বাংলাদেশকে কত বিলিয়ন অনুদান-ঋণ দেবে চীন, জানালেন প্রধানমন্ত্রী নাসিরনগরে খুনের মামলার বাদীর এখন দিন কাটছে আতংকে মধুপুরে ক্লিনিং স্যাটারডে কার্যক্রম অনুষ্ঠিত এবার কোটা আন্দোলনের পক্ষে কথা বললেন আয়মান সাদিক ভারতে পাচার হওয়া ৫ বাংলাদেশি সাজাভোগ শেষে দেশে ফিরেছে শিক্ষার্থীরাই হবে আগামী বাংলাদেশের কর্ণধার: ধর্মমন্ত্রী দেশের অর্থনীতি এখন যথেষ্ট শক্তিশালী: প্রধানমন্ত্রী বীরগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স পরিদর্শন করলেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী ডাঃ সামন্ত লাল সেন

খেজুর খাবেন ইফতারে যে কারণে

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২৩ মার্চ 20২৩ | হালনাগাদ:রবিবার ১৪ জুলাই ২০২৪ | ১১৩১জন দেখেছেন

Image

লাইফস্টাইল ডেস্ক: খেজুর খেতে যেমন সুস্বাদু, তেমনি খুবই পুষ্টিকর একটি খাবার। একে প্রাকৃতিক শক্তির উৎস বলা হয়। ভিটামিন, আঁশ, ক্যালসিয়াম, আয়রন, ফসফরাস, পটাশিয়াম, ম্যাগনেশিয়াম ও জিঙ্কসমৃদ্ধ খেজুর একজন সুস্থ মানুষের শরীরে আয়রনের চাহিদার প্রায় ১১ ভাগই পূরণ করে। তাই রোজার সময় ইফতারিতে খেজুর রাখা ভালো।

খেজুর এমন একটি ফল, যা ফ্রুকটোজ ও গ্লাইসেমিক–সমৃদ্ধ। এটি রক্তে শর্করার পরিমাণ বাড়াতে সাহায্য করে। এ ছাড়া খেজুর খাওয়ার সঙ্গে সঙ্গেই শরীরের ক্লান্তিভাব দূর হয়। এতে বিদ্যমান ভিটামিন বি মস্তিষ্কের কার্যক্ষমতা বৃদ্ধিতে সহায়তা করে। এবার জেনে নিন খেজুরের নানাবিধ উপকারিতা সম্পর্কে-

দৃষ্টিশক্তির উন্নতি ঘটায়

খেজুরে তো পুষ্টি আছেই, তবে এটা খাওয়ার পাশাপাশি এই ফলের পাতা খেলে দৃষ্টিশক্তির উন্নতি ঘটে। রাতকানা রোগসহ চোখের সমস্যা প্রশমনেও সহায়তা করে।

শরীরে শক্তি জোগায়

খেজুরের মধ্যে থাকা সুগার শরীরে একটা চনমনে ভাব আনে। এটি মানসিক ক্লান্তি দূর করতে সাহায্য করে।

হার্ট সবল থাকে

ডায়েটারি ফাইবারে সমৃদ্ধ হওয়ার কারণে খেজুর খেলে শরীরে খারাপ কোলেস্টেরলের মাত্রা কমে। তাই এতে হার্ট অ্যাটাক এবং স্ট্রোকের আশঙ্কা হ্রাস পায়।

কোষ্ঠকাঠিন্য কমায়

প্রচুর পরিমাণে আঁশ থাকার কারণে নিয়মিত খেজুর খেলে এটি হজমে সহায়তা করে। কোষ্ঠকাঠিন্য কমানোর পাশাপাশি এতে বদহজম, কোলাইটিস এবং হেমোরয়েডের মতো রোগে আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কা হ্রাস পায়।

হাড় সবল রাখে

খেজুরে সেলেনিয়াম, কপার এবং ম্যাগনেসিয়ামের মতো উপকারী খনিজ ও ভিটামিন রয়েছে, যা হাড়কে খুবই সবল রাখে। এ ছাড়াও বয়সী ব্যক্তিরা নিয়মিত খেজুর খেলে অস্টিওপোরোসিসের মতো রোগে আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা কমে।

ওজন বাড়াতে সাহায্য করে

যাদের ওজন মাত্রাতিরিক্ত হারে কমে যেতে শুরু করেছে তারা খেজুর খেলে ওজন বৃদ্ধিতে বিশেষ ভূমিকা পালন করে থাকে।

ব্রেইন ভালো রাখে

খেজুরে থাকা বিভিন্ন ধরনের ভিটামিন এবং খনিজ পদার্থ বিশেষ করে পটাশিয়াম নার্ভ ও ব্রেইনের কর্মক্ষমতা বাড়াতে সহায়তা করে।

হৃদরোগের ঝুঁকি কমায়

খেজুরে প্রচুর পরিমাণে অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট থাকে, যা হৃদরোগের ঝুঁকি কমায়। এ ছাড়া হৃৎপিণ্ডের সবচেয়ে নিরাপদ ওষুধ খেজুর।

রক্তশূন্যতা দূর করে

খেজুর নিয়মিত খেলে আয়রনের ঘাটতি পূরণ করার পাশাপাশি শরীরে রক্ত তৈরিতে সহায়তা করে।

ক্যানসার প্রতিরোধ করে

প্রাকৃতিক আঁশে পূর্ণ খেজুর ক্যানসার প্রতিরোধ করে। তাই যারা নিয়মিত খেজুর খান, তাদের বেলায় ক্যানসারের ঝুঁকিটাও অনেক কম থাকে।

অ্যালার্জি থেকে বাঁচায়

খেজুরে থাকা সালফার অ্যালার্জির মতো রোগ থেকে দূরে রাখতে বিশেষ ভূমিকা পালন করে থাকে।

স্মৃতিশক্তি বাড়ায়

খেজুর স্মৃতিশক্তি বাড়াতে সাহায্য করে। গ্লুকোজের পাশাপাশি প্রাকৃতিক চিনি পাওয়া যায় খেজুর থেকে যা এনার্জি বাড়ায়। খেজুরে থাকা ভিটামিন সি ও ডি ত্বক ভালো রাখে। এ ছাড়া খেজুর দৃষ্টিশক্তি বাড়িয়ে রাতকানা প্রতিরোধেও সহায়ক।

যারা খেজুর খাবেন না

যাদের মাইগ্রেন বা প্রচণ্ড মাথাব্যথার সমস্যা রয়েছে, তাদের খেজুর না খাওয়াই ভালো। কারণ ছোট মিষ্টি খেজুরে টিরামিন বলে যে পদার্থটি রয়েছে, তা মাথাব্যথা আরও বাড়িয়ে দিতে পারে। তা ছাড়া যারা ডিপ্রেশনে ভুগছেন, তাদের জন্যও খেজুর খাওয়া ঠিক নয়। এ ক্ষেত্রে রক্তচাপ বেড়ে যাওয়ার আশঙ্কা থাকে।

আবার যাদের দেহে পটাশিয়ামের পরিমাণ বেশি, তারা খেজুর খাওয়ার ব্যাপারে সতর্কতা অবলম্বন করবেন। আর যাদের ডায়াবেটিসের সমস্যা আছে, খেজুর গ্রহণের আগে তারা অবশ্যই নিকটস্থ পুষ্টিবিদের পরামর্শ গ্রহণ করুন।


আরও খবর

"নোবেলের ম্যাজিক শুধু প্রতারণা"

মঙ্গলবার ২০ ফেব্রুয়ারী ২০24




দক্ষিণ আফ্রিকার স্বপ্ন ভেঙে চ্যাম্পিয়ন ভারত

প্রকাশিত:রবিবার ৩০ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:রবিবার ১৪ জুলাই ২০২৪ | ১৪৪জন দেখেছেন

Image

স্পোর্টস ডেস্ক:দক্ষিণ আফ্রিকার সেমিফাইনালে জিতে চোকার্স অপবাদ ঘুচেছে ।জিততে জিততে হেরে যাওয়ার স্বভাব  কিন্তু বদলায়নি। ভারতের বিপক্ষে টি-২০ বিশ্বকাপের ফাইনালে শিরোপা ছোঁয়া দূরত্বে ছিল প্রোটিয়ারা। সেখান থেকে হুট করে 'চোকিং' করে ৭ রানে হেরেছে তারা। ফাইনালে বারবার পা হড়কানো ভারত ১৭ বছর পর টি-২০ বিশ্বকাপের এবং ১১ বছর পর আইসিসির টুর্নামেন্টে চ্যাম্পিয়ন হয়েছে।

এক বছরের ব্যবধানে বৈশ্বিক টুর্নামেন্টের তৃতীয় ফাইনালে উঠে ভারত। আগের দুই ফাইনালে খালি হাতে ফিরতে হয়েছিল রোহিত শর্মার দলকে। তবে তৃতীয়বার আর খালি হাতে ফিরতে হলো না ভারতকে। শ্বাসরুদ্ধকর ফাইনালে দক্ষিণ আফ্রিকাকে ৭ রানে হারিয়ে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের দ্বিতীয় শিরোপা নিজেদের করে নিলো রোহিত-কোহলিরা।


আরও খবর



সিলেটের বন্যা পরিস্থিতি আরও অবনতি

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১৮ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:শনিবার ১৩ জুলাই ২০২৪ | ১৫৮জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:প্রতিনিয়ত বৃষ্টি ও উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢল সুনামগঞ্জে বন্যা পরিস্থিতির অবনতি হয়েছে। ভারতের চেরাপুঞ্জিতে অধিক বৃষ্টিপাত হওয়ায় জেলার সীমান্ত উপজেলাগুলোর অবস্থা আশঙ্কাজনক।

মঙ্গলবার ১৮ জুন সকাল থেকে সুরমা নদীর পানি সুনামগঞ্জ প‌য়েন্টের বিপৎসীমার ৬৭ সেন্টিমিটার ও ছাতক পয়েন্ট ১৩৭ সেন্টিমিটার ওপ‌র দিয়ে প্রবাহিত হ‌চ্ছে।

সুরমা নদীর পানি বিপদসীমা অতিক্রম করে সুনামগঞ্জের পৌরশহরের পশ্চিম তেঘিরয়া, সাহেববাড়ি ঘাট, পশ্চিম বাজার, মাছবাজার, কাজির পয়েন্ট, ষোলঘর পয়েন্ট, নবীনগরসহ বিভিন্ন আবাসিক এলাকায় প্রবেশ করেছে।

এছাড়াও জেলার ছাতক, দোয়ারাবাজার, সুনামগঞ্জ সদর ও তা‌হিরপুর উপ‌জেলার অন্তত শতাধিক গ্রামের মানুষ পানিবন্দি হয়ে আছে। জেলার শতা‌ধিক অভ্যন্তরীণ সড়ক তলিয়ে যাওয়ায় চরম দুর্ভোগ প‌ড়েছেন বা‌সিন্দারা।

সুনামগঞ্জ পানি উন্নয়ন বোর্ডের (পাউবো) নির্বাহী প্রকৌশলী মামুন হাওলাদার বলেন, বৃ‌ষ্টিপাত আরও ৪৮ ঘণ্টা অব‌্যাহত থাক‌বে এবং নিম্নাঞ্চলেও বন‌্যা প‌রি‌স্থি‌তি সৃ‌ষ্টি হ‌য়ে‌ছে।

এদিকে, বৃষ্টিপাত ও উজানের ঢলে সিলেটের সীমান্তবর্তী উপজেলাসহ বেশ কয়েকটি উপজেলার নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হয়েছে। গোয়াইনঘাট, কোম্পানীগঞ্জ, ওসমানীনগর, বালাগঞ্জ ও বিয়ানীবাজার উপজেলার বেশকিছু পরিবার এরই মধ্যে আশ্রয়কেন্দ্রে অবস্থান নিয়েছে। এছাড়াও পানিবন্দি হয়ে পড়েছেন জেলার বিভিন্ন উপজেলার অসংখ্য মানুষ। তবে সোমবার বিকেল থেকে বৃষ্টিপাত কিছুটা কমায় সিলেট নগরীর জলাবদ্ধতাও কমতে শুরু করেছে।

পাউবো সিলেটের তথ্যমতে, কুশিয়ারা নদীর পানি মঙ্গলবার সকাল ৯টায় আমলশীদ পয়েন্টে বিপৎসীমার ১৫ সেন্টিমিটার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। এর আগে সকাল ৬টায় বিপৎসীমার ১ সেন্টিমিটার ওপরে ছিল। এই নদীর পানি ফেঞ্চুগঞ্জ পয়েন্টে সকাল ৬টায় বিপৎসীমার ৭৭ সেন্টিমিটার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছিল। সকাল ৯টায় তা আরও বেড়ে ৭৯ সেন্টিমিটারে পৌঁছায়। সারি নদীর পানি সারিঘাট পয়েন্টে সকাল ৯টায় বিপৎসীমার ৩৫ সেন্টিমিটার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। এর আগে সকাল ৬টায় বিপৎসীমার ৪০ সেন্টিমিটার উপরে ছিল। সারিগোয়াইন নদীর পানি মঙ্গলবার সকাল ৬টায় বিপৎসীমার ১১ সেন্টিমিটার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছিল। সকাল ৯টায় তা আরও বেড়ে বিপৎসীমার ১৬ সেন্টিমিটার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। এছাড়াও সারি, সারিগোয়াইন, লোভাছড়া ও ধলাইসহ সবকটি নদীর পানি বিপৎসীমার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে।

আবহাওয়া অধিদপ্তর বলছে, ২৪ ঘণ্টায় সিলেটে বৃষ্টি হয়েছে ১৫৩ মিলিমিটার। মঙ্গলবার সকাল ৬টা থেকে সকাল ৯টা পর্যন্ত তিন ঘণ্টায় বৃষ্টিপাতের পরিমাণ ছিল ৪৪ মিলিমিটার। অন্যদিকে, ভারতের চেরাপুঞ্জিতে গত ২৪ ঘন্টায় ৩৯৫ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করেছে দেশটির আবহাওয়া অফিস।


আরও খবর



১৫ জেলায় রাত ১টার মধ্যে বজ্রসহ বৃষ্টির পূর্বাভাস

প্রকাশিত:শনিবার ২৯ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:রবিবার ১৪ জুলাই ২০২৪ | ১৫৫জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:রাত ১টার মধ্যে দেশের ১৫ জেলায় ৬০ কিমি বেগে ঝড়ের পূর্বাভাস দিয়েছে আবহাওয়া অফিস। সংস্থাটি একইসঙ্গে বজ্রসহ বৃষ্টির পূর্বাভাস দিয়েছে।শনিবার (২৯ জুন) বিকেলে দেশের অভ্যন্তরীণ নদীবন্দর সমূহের জন্য দেওয়া আবহাওয়ার পূর্বাভাসে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

এতে বলা হয়, দিনাজপুর, রংপুর, রাজশাহী, বগুড়া, ময়মনসিংহ, কুষ্টিয়া, যশোর, খুলনা, বরিশাল, মাদারীপুর, নোয়াখালী, কুমিল্লা, চট্টগ্রাম, কক্সবাজার এবং সিলেট অঞ্চল সমূহের উপর দিয়ে দক্ষিণ বা দক্ষিণ-পূর্ব দিক থেকে ঘণ্টায় ৪৫ থেকে ৬০ কিলোমিটার বেগে অস্থায়ীভাবে দমকা অথবা ঝড়ো হাওয়াসহ বৃষ্টি অথবা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। এসব এলাকার নদীবন্দর সমূহকে এক নম্বর সতর্ক সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে।

এদিকে আবহাওয়ার আরেক পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, বাংলাদেশে সক্রিয় মৌসুমি বায়ুর প্রভাবে বঙ্গোপসাগরে লঘুচাপ সৃষ্টি হয়েছে। আজ সারা দেশে মাঝারি থেকে ভারি বৃষ্টির সম্ভাবনা আছে।

শনিবারের আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, রংপুর, রাজশাহী, ঢাকা, ময়মনসিংহ, বরিশাল, চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের অধিকাংশ জায়গায় এবং খুলনা বিভাগের অনেক জায়গায় অস্থায়ীভাবে দমকা হাওয়াসহ হালকা থেকে মঝারি ধরনের বৃষ্টি বা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। সেই সঙ্গে দেশের কোথাও কোথাও মাঝারি ধরনের ভারি থেকে ভারি বর্ষণ হতে পারে।

সিনপটিক অবস্থায় বলা হয়েছে, উত্তর-পশ্চিম বঙ্গোপসাগর ও এর আশপাশের এলাকায় একটি লঘুচাপ সৃষ্টি হয়েছে। মৌসুমি বায়ু বাংলাদেশের ওপর সক্রিয় এবং উত্তর বঙ্গোপসাগরের অন্যত্র প্রবল অবস্থায় রয়েছে। এই লঘুচাপের প্রভাবে বুধবার (৩ জুলাই) পর্যন্ত দেশের প্রায় সব এলাকায় মাঝারি থেকে ভারি বৃষ্টি ঝরার পূর্বাভাস দিয়েছে।


আরও খবর



পুলিশের ব্যারিকেড ভেঙে শাহবাগে শিক্ষার্থীদের অবস্থান

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১১ জুলাই ২০২৪ | হালনাগাদ:রবিবার ১৪ জুলাই ২০২৪ | ৭৮জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:শাহবাগে পুলিশের ব্যারিকেড ভেঙে কোটা বাতিলের দাবিতে ‘বাংলা ব্লকেড’ কর্মসূচি অনুযায়ী অবস্থান নিয়েছে শিক্ষার্থীরা।

বৃহস্পতিবার (১১ জুলাই) বিকেল সোয়া পাঁচটার দিকে তারা শাহাবাগে অবস্থান নেয়।এদিকে, যেকোনো পরিস্থিতি মোকাবিলায় কঠোর অবস্থানে রয়েছে পুলিশ। শাহবাগ মোড়ে সাঁজোয়াযান নিয়ে বিপুল সংখ্যক পুলিশ অবস্থান নিয়েছে।

বিস্তারিত আসছে..


-খবর প্রতিদিন/ সি.


আরও খবর



এমপি সাদ্দাম হোসেন পাভেলের গণসংবর্ধনা

প্রকাশিত:রবিবার ০৭ জুলাই ২০২৪ | হালনাগাদ:রবিবার ১৪ জুলাই ২০২৪ | ৯০জন দেখেছেন

Image

লেলিন,জলঢাকা,(নীলফামারী) প্রতিনিধি:নীলফামারী (০৩) আসনের  এম’পি  স্বরাষ্ট্র ও    সাংস্কৃতিক  সম্পর্কিত  সংসদীয়   স্হায়ী   কমিটির   সদস্য  এবং  আওয়ামী  যুবলীগ  কেন্দ্রীয়  কমিটি’র  ত্রাণ  ও সমাজ  কল্যাণ  বিষয়ক  সম্পাদক সাদ্দাম  হোসেন  (পাভেল)  সম্প্রতি রাষ্ট্রীয়ভাবে   চীন  সফর   শেষে  দেশে  ফেরায় জলঢাকাবাসীর  পক্ষ  থেকে  এক গণসংবর্ধনা’র   আয়োজন   করা   হয়েছে।

পৌর   যুবলীগ  ও শহীদ   শেখ  ফজলুর  হক  মনি  স্মৃতি  সংসদের  আয়োজনে (৬জুন)  শনিবার  সন্ধ্যা থেকে রাত ১১টা   পর্যন্ত         জলঢাকার            প্রাণকেন্দ্র ঐতিহাসিক   জিরো   পয়েন্ট   মোড়ে  পৌর   যুবলীগের   সভাপতি.  নাজমুল     কবির   মুকুলের     সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত   সংবর্ধনা  অনুষ্ঠানে  প্রধান   অতিথি   হিসেবে  বক্তব্য   রাখেন,  নীলফামারী  (০৩)  আসনের  সংসদ সদস্য   সাদ্দাম   হোসেন   (পাভেল)  এম’পি।        

যুবলীগ  নেতা  লাভলুর   রশিদে’র   সঞ্চালনায়  বিশেষ অতিথি   হিসেবে    বক্তব্য   রাখেন, নবনির্বাচিত  উপজেলা  পরিষদ      চেয়ারম্যান   ও   উপজেলা  আওয়ামিলীগ         সাবেক   সভাপতি  আনছার আলী (মিন্টু), সাবেক  সাধারণ  সম্পাদক  শহীদ হোসেন রুবেল,  গোলনা  ইউপি    চেয়ারম্যান  আওয়ামিলীগ    নেতা  অধ্যক্ষ  জাহেদ আলী,  উপজেলা  পরিষদের  ভাইস-চেয়ারম্যান  শাহিনুর  রহমান,  মহিলা  ভাইস-চেয়ারম্যান  মনোয়ারা  বেগম,    কাঠালী  ইউপি  চেয়ারম্যান  সোহরাব হোসেন  তুহিন,  ধর্মপাল ইউপি চেয়ারম্যান আবু তাহের প্রমুখ। 

এম’পি  সাদ্দাম  হোসেন পাভেল  বক্তৃতায়, তিনি  মাদকের  হাত  থেকে  যুব সমাজকে রক্ষা  করে,  জুয়া  ও  দুর্নীতিমুক্ত সমাজ গঠনে  প্রশাসনের  পাশাপাশি  সকলের সহযোগিতা  কামনা  করেন।  তরুণদের সুশিক্ষায়  শিক্ষিত  হ'য়ে  দেশ ও জাতির কল্যাণে তাদের  ভুমিকা রাখার আহবান জানান  । তিনি  তাঁর নির্বাচনী এলাকার  আপামর  জনসাধারণের   পাশাপাশি বঙ্গবন্ধুর কন্যা,  প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা’র প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন আয়োজিত  -এ সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে। 

-খবর প্রতিদিন/ সি.


আরও খবর