Logo
আজঃ শুক্রবার ২২ সেপ্টেম্বর ২০২৩
শিরোনাম

খালেদা জিয়াকে তারেকের নির্দেশে সরাতে চায় বিএনপি

প্রকাশিত:সোমবার ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২৩ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২২ সেপ্টেম্বর ২০২৩ | ৮৫জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:তারেকের নির্দেশে খালেদা জিয়াকে রাজনীতি থেকে সরাতে চায় বিএনপি। সোমবার (১৮ সেপ্টেম্বর) বাংলাদেশ আওয়ামী মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্ম লীগের ১৬তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় এ মন্তব্য করেছেন সাবেক খাদ্যমন্ত্রী অ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম।   

তিনি বলেন, বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের নির্দেশে দলটি খালেদা জিয়াকে রাজনীতি থেকে মাইনাস করতে চান। না হলে তার মুক্তির জন্য বিএনপি লড়াই করত, আন্দোলন তীব্র থেকে তীব্রতর করত। তার মুক্তির জন্য বারবার আদালতের দ্বারস্থ হতো। 

কামরুল বলেন, মামলা হলেই প্রতিদিন আপনারা আদালতের দ্বারস্থ হন জামিনের জন্য। নাইকো মামলা, এই মামলা-সেই মামলার জন্য আপনারা আদালতের দ্বারস্থ হন, কিন্তু খালেদা জিয়ার জন্য কবে আদালতে গিয়েছিলেন?

তিনি বলেন, তার মুক্তি এবং বিদেশে চিকিৎসা একমাত্র আদালতের মাধ্যমেই হতে পারে, অন্য কোনো পথে নয়। আপনারা সেটা জানেন না। আপনারা তাকে জেলখানায় রাখতে চান, রাজনীতি থেকে মাইনাস করতে চান।

কামরুল ইসলাম বলেন, আপনাদের সামনে দুটি পথ ছিল– আন্দোলনকে তীব্রতর করে তাকে মুক্ত করা অথবা বারবার আদালতের শরণাপন্ন হয়ে আদালতের মাধ্যমে তার মুক্তি নিশ্চিত করা, বিদেশে চিকিৎসার ব্যবস্থা করা। কোনোটাই আপনারা করেন না রাষ্ট্রপতির কাছে ক্ষমা ভিক্ষা চাইতে পারতেন, তাও করেন না। 

তিনি আরও বলেন, আপনাদের উদ্দেশ্য তারেকের ফর্মুলাতে গিয়ে খালেদা জিয়াকে রাজনীতি থেকে মাইনাস করে জেলখানায় রাখা। আবার সরকারের দোষ দেন। সাঈদীর সঙ্গে খালেদা জিয়াকে তুলনা করেন। ভালো, এতদিন পর সত্য কথাটাই বলেছেন।

বিএনপি দেশকে ধ্বংসের দিকে নিয়ে যেতে চাইছে উল্লেখ করে তিনি আরও বলেন, বিএনপি আজ বাংলাদেশে আমাদের সব অর্জন-উন্নয়নকে নস্যাৎ করার চেষ্টা করছে। গণতন্ত্রকে হত্যার চেষ্টা করছে। তারা সেই তত্ত্বাবধায়ক সরকার চায়। যে সরকার তিন মাসের কথা বলে দুই বছর থেকে যায়, ওই রকম একটা অনির্বাচিত সরকার আবার তারা চায়। আবার তারা ক্ষমতার পরিবর্তন চায়, যেটা সম্ভব না। 

আওয়ামী লীগ নেতা বলেন, তারা ষড়যন্ত্র করছে গণতান্ত্রিক সরকারকে হটিয়ে দেওয়ার। আবার দেশে অনির্বাচিত সরকার কায়েমের চেষ্টা করছে তারা। তাই নতুন প্রজন্মকে বলব এই অপশক্তির বিরুদ্ধে আমাদের অতন্দ্র প্রহরীর মতো সজাগ থাকতে হবে। তারা দেশের শত্রু, জাতির শত্রু।

কামরুল বলেন, বিএনপি আমাদের পেছনের দিকে নিয়ে যেতে চায়। তাদের স্লোগানই হচ্ছে টেক ব্যাক বাংলাদেশ। আমরা যখন স্মার্ট বাংলাদেশের কথা বলি, তখন তারা বলে টেক ব্যাক বাংলাদেশ। 

বাংলাদেশ আওয়ামী মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্ম লীগের সভাপতি অ্যাডভোকেট আসাদুজ্জামান দুর্জয়ের সভাপতিত্বে আলোচনাসভায় আরও ছিলেন বাংলাদেশ ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সহসভাপতি ডা. দিলীপ কুমার রায়, বাংলাদেশ আওয়ামী মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্ম লীগের সাধারণ সম্পাদক খাজা হোসেন, সহসভাপতি আলমগীর হোসেন, বশির আহমেদ বাদল, শাহ আলম, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ইসমাইল হোসেন বাবু, সাংগঠনিক সম্পাদক তারেক আইয়ূব প্রমুখ।


আরও খবর

এডিসি হারুন রংপুরে যোগ দিলেন

বৃহস্পতিবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২৩




চন্দ্রাভিযানে এবার জাপান

প্রকাশিত:শনিবার ২৬ আগস্ট ২০২৩ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২২ সেপ্টেম্বর ২০২৩ | ১৫০জন দেখেছেন

Image

প্রযুক্তি ডেস্ক:রাশিয়া ও ভারতের পর এবার চাঁদে মিশন শুরু করতে যাচ্ছে জাপান। মুন স্নাইপার নামের এইচ-২ রকেটটি রোববার সকালে দক্ষিণ জাপানের তানেগাশিমা স্পেস সেন্টার থেকে উড্ডয়নের কথা থাকলেও খারাপ আবহাওয়ার কারণে এটিকে এক দিন পিছিয়ে সোমবার উৎক্ষেপণ করা হবে।

জাপানের অ্যারোস্পেস এক্সপ্লোরেশন এজেন্সি (জেএএক্সএ) এ খবর জানিয়েছে।

রকেটটি একটি ল্যান্ডার বহন করবে যা চার থেকে ছয় মাসের মধ্যে চাঁদের পৃষ্ঠে পৌঁছাবে বলে আশা করা হচ্ছে। এ ছাড়া এতে থাকবে একটি এক্স-রে ইমেজিং স্যাটেলাইট; যা মহাবিশ্বের বিবর্তন সম্পর্কে ধারণা দেবে।

এটি একটি উন্নত ইমেজিং স্যাটেলাইট ও একটি লাইটওয়েট ল্যান্ডার বহন করবে। আশা করা হচ্ছে, আগামী জানুয়ারি বা ফেব্রুয়ারিতে মহাকাশযানটি চাঁদে নামবে।

জাপানের মহাকাশ সংস্থাটির জন্য এ মিশনটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। কারণ এরই মধ্যে বেশ কিছু ব্যর্থতার পর ইমেজ সংকটে পড়েছে সংস্থাটি। গত বছর কয়েকটি অভিযানে ব্যর্থ হয় তারা।

মহাকাশ কর্মসূচিতে বিশ্বের অন্যতম দেশ জাপান। তবে চাঁদের গঠন নিয়ে পরীক্ষা নিরীক্ষা চালাতে টোকিওর সেখানে ল্যান্ডার স্থাপনের প্রথম প্রচেষ্টা ২০২২ সালের নভেম্বরে ব্যর্থ হয়। গত মাসে একটি পরীক্ষার সময় একটি নতুন ধরনের রকেটও বিস্ফোরিত হয়।

এবার অবশ্য জাপানিদের সবচেয়ে বড় ভরসা এটির ল্যান্ডার। এটির নাম দেওয়া হয়েছে স্মার্ট ‘ল্যান্ডার ফর ইনভেস্টিগেটিং মুন’ বা এসএলআইএম। আসলে ডিজাইন ল্যান্ডারটিকে অন্যসব থেকে আলাদা করেছে।

‘ল্যান্ডার ফর ইনভেস্টিগেটিং মুন’ আকারে অনেক ছোট এবং হালকা। ২.৪ মিটার উচ্চতার ল্যান্ডারটি ২.৭ মিটার চওড়া, ওজন ৭০০ কেজি। এর নির্ভুলতার জন্য মিশনটির নাম দেওয়া হয়েছে মুন স্নাইপার। একটি নির্দিষ্ট লক্ষ্যের ১০০ মিটারের মধ্যে এটির অবতরণ করার সক্ষমতা রয়েছে।

এসএলআইএম-এর প্রকল্প দলের শিনিচিরো সাকাই ভারতের সাফল্যের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে সাংবাদিকদের বলেন, ‘চাঁদে অবতরণ অত্যন্ত কঠিন প্রযুক্তি। তবে আমরা আমাদের সেরা চেষ্টাটা করবো।

উল্লেখ্য, গত ২৩ আগস্ট চাঁদের দক্ষিণ মেরুতে সফলভাবে ল্যান্ডার অবতরণ করে ইতিহাসে নাম লেখায় ভারত। আর এর কয়েকদিন আগে চাঁদের কক্ষপথে পৌঁছে বিধ্বস্ত হয় রাশিয়ার লুনা-২৫।


আরও খবর

কানাডার নাগরিকদের ভিসা দেওয়া স্থগিত করলো ভারত

বৃহস্পতিবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২৩

হিজাব না পরলে ইরানে ১০ বছরের জেল

বৃহস্পতিবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২৩




বিশেষ সাক্ষাৎকারে বীর মুক্তিযোদ্ধা ড এস এম জাহাঙ্গীর আলম

প্রকাশিত:রবিবার ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২৩ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২২ সেপ্টেম্বর ২০২৩ | ১২৭জন দেখেছেন

দেশের চলমান উন্নয়ন ও অগ্রগতির ধারা অব্যাহত  রাখতে বিশেষ সাক্ষাৎকারে বললেন বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট পরিচালক বীর মুক্তিযোদ্ধা ড এস এম জাহাঙ্গীর আলম।


আরও খবর



বিচারপতি এম. ইনায়েতুর রহিম অবকাশকালীন চেম্বার জজ মনোনীত

প্রকাশিত:রবিবার ০৩ সেপ্টেম্বর ২০২৩ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২৩ | ১৫০জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:দেশের সর্বোচ্চ আদালত সুপ্রিম কোর্টের চেম্বার জজ আদালতের অবকাশকালীন বিচারপতি হিসেবে মনোনীত হয়েছেন আপিল বিভাগের বিচারপতি এম. ইনায়েতুর রহিম। তিনি আজ, রোববার (৩ সেপ্টেম্বর) থেকে আগামী ৭ অক্টোবর পর্যন্ত দায়িত্ব পালন করবেন।

এক বিজ্ঞপ্তিতে সুপ্রিম কোর্ট প্রশাসনের পক্ষ থেকে জানানো হয়, বিচারপতি এম. ইনায়েতুর রহিমকে অবকাশকালীন জজ হিসেবে মনোনীত করেছেন প্রধান বিচারপতি হাসান ফয়েজ সিদ্দিকী। এ সংক্রান্ত প্রধান বিচারপতির সই করা আদেশ সুপ্রিম কোর্টের ওয়েবসাইটেও প্রকাশ করা হয়েছে।

সরকারি ও সাপ্তাহিক ছুটিসহ কোর্টের অবকাশে ১ সেপ্টেম্বর থেকে ৭ অক্টোবর পর্যন্ত সুপ্রিম কোর্টের নিয়মিত বিচারিক কার্যক্রম বন্ধ থাকবে। এসময় আপিল বিভাগের মামলা সংক্রান্ত জরুরি বিষয় নিষ্পত্তির জন্য বিচারপতি এম. ইনায়েতুর রহিমকে মনোনীত করা হয়েছে।

বিচারপতি এম. ইনায়েতুর রহিম আগামী ৩, ৫, ১১, ১৩, ১৮, ২০, ২৫, ২৭ সেপ্টেম্বর এবং ২ ও ৪ অক্টোবর সকাল সাড়ে ৯টা থেকে অবকাশকালীন বিচারক হিসেবে শারীরিক উপস্থিতিতে আপিল বিভাগের চেম্বার জজ কোর্টের শুনানি গ্রহণ করবেন।


আরও খবর

এডিসি হারুন রংপুরে যোগ দিলেন

বৃহস্পতিবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২৩




এডিসি সানজিদার বদলি নিয়ে যা বললেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৪ সেপ্টেম্বর ২০২৩ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২৩ | ৯৭জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:ছাত্রলীগের দুই কেন্দ্রীয় নেতাকে মারধরের ঘটনায় আলোচনায় আসা ডিএমপির অতিরিক্ত উপপুলিশ কমিশনার (এডিসি) সানজিদা আফরিনকে রংপুরে বদলির খবরটি গুজব বলে জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল। বৃহস্পতিবার (১৪ সেপ্টেম্বর) সচিবালয়ে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে নিজ দপ্তরে এক সভা শেষে সাংবাদিকদের তিনি এ তথ্য জানান।

ছাত্রলীগের দুই কেন্দ্রীয় নেতাকে মারধরের ঘটনায় বিতর্কিত অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার (এডিসি) হারুনকে রংপুর রেঞ্জ ডিআইজি কার্যালয়ে সংযুক্ত করা হয়েছে। একই ঘটনায় এডিসি সানজিদা আফরিনকে রংপুর পুলিশ ট্রেনিং সেন্টারে (পিটিসি) বদলি করা হতে পারে বলে সংবাদ প্রকাশ হয়। সোশ্যাল মিডিয়ায় দ্রুত ছড়িয়ে যায় এমন খবর।

এর আগে ৯ সেপ্টেম্বর রাতে শাহবাগ থানায় ছাত্রলীগ নেতাদের নির্যাতনের অভিযোগ ওঠে এডিসি হারুনের বিরুদ্ধে।

আহত নেতারা হলেন- ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক আনোয়ার হোসেন নাঈম, বিজ্ঞানবিষয়ক সম্পাদক ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদুল্লাহ হলের সাধারণ সম্পাদক শরীফ আহমেদ এবং ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় বঙ্গবন্ধু হল শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক মাহবুবুর রহমান।

এর জেরে ওইদিন রাতেই শাহবাগ থানার সামনে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা ভিড় করেন। পরে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর ও পুলিশের কর্মকর্তারা থানায় গিয়ে মধ্যরাতে মীমাংসা করেন। তবে ঘটনাটি আলোচনার জন্ম দেয়।

এরপর ১০ সেপ্টেম্বর এডিসি হারুনকে সাময়িক বরখাস্ত করে প্রজ্ঞাপন জারি করা হয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের জননিরাপত্তা বিভাগের পুলিশ-১ শাখা থেকে।

এ অবস্থায় ১২ সেপ্টেম্বর বিষয়টি নিয়ে মুখ খুলেন সানজিদা। তিনি দাবি করেন, রাষ্ট্রপতির সহকারী একান্ত সচিব (এপিএস) আজিজুল হক মামুনই এডিসি হারুনকে আগে মারধর করেছেন।

সানজিদা রাষ্ট্রপতির এপিএস আজিজুল হক মামুনের স্ত্রী। তিনি ৩৩তম বিসিএসের কর্মকর্তা। ডিএমপির ক্রাইম বিভাগে অতিরিক্ত উপকমিশনার হিসেবে দায়িত্বে রয়েছেন সানজিদা।


আরও খবর

এডিসি হারুন রংপুরে যোগ দিলেন

বৃহস্পতিবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২৩




চাঁদের উদ্দেশে এবার জাপানের ‘স্নাইপার’ এর যাত্রা

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০৭ সেপ্টেম্বর ২০২৩ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২৩ | ১৪১জন দেখেছেন

Image

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:বিশ্বের পঞ্চম দেশ হিসেবে চন্দ্রবিজয়ের লক্ষ্য নির্ধারণ করেছে জাপান। আজ বৃহস্পতিবার চাঁদের উদ্দেশে যাত্রা শুরু করেছে জাপানি মহাকাশযান স্নাইপার।

জাপান অ্যারোস্পেস এক্সপ্লোরেশন এজেন্সি (জাক্সা) এর পক্ষ থেকে জানানো হয়। জাপানের দক্ষিণে অবস্থিত তানেগাশিমা স্পেস সেন্টার থেকে সফলভাবে উৎক্ষেপণ করা হয়েছে যানটি। এর সঙ্গে যুক্ত ছিল নিজেদের তৈরি রকেট এইচ-আইআইএ। আগামী বছর এটি চাঁদে অবতরণ করার কথা রয়েছে।

এই মহাকাশযানের নাম স্মার্ট ল্যান্ডার ফর ইনভেস্টিগেটিং মুন (স্লিম)। তবে একে বলা হচ্ছে মুন স্নাইপার। চন্দ্রপৃষ্ঠের নির্দিষ্ট লক্ষ্যের ১০০ মিটারের মধ্যে অবতরণ করবে এটি। এতে খরচ হচ্ছে ১০ কোটি ডলার। বাংলাদেশি মুদ্রায় যা এক হাজার কোটি টাকারও বেশি।

জাক্সা প্রেসিডেন্ট হিরোশি ইয়ামাকাওয়া এক সংবাদ সম্মেলনে বলেন, ‘স্লিমের মূল উদ্দেশ্য সফলভাবে অবতরণ করা। আমরা যেখানে অবতরণ করতে চাচ্ছি সেখানেই যেন করতে পারি সেটা আমাদের লক্ষ্য।’

এর আগে ২৩ আগস্ট বিশ্বের চতুর্থ দেশ হিসেবে সফলভাবে চাঁদে অবতরণ করে ভারতের চন্দ্রযান-৩। চাঁদের দক্ষিণ মেরুতে অবতরণ করা প্রথম দেশ ভারত। তার আগে দক্ষিণ মেরুতে অবতরণের আগে ধ্বংস হয় রুশ মহাকাশযান লুনা-২৫

জাপানও গত বছর দুবার চাঁদে অবতরণ করতে গিয়ে ব্যর্থ হয়েছে। সর্বশেষ গত নভেম্বরে মহাকাশযান অমোতেনাশি ল্যান্ডারের সঙ্গে অবতরণের আগেই যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায় জাক্সা বিজ্ঞানীদের।


আরও খবর

কানাডার নাগরিকদের ভিসা দেওয়া স্থগিত করলো ভারত

বৃহস্পতিবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২৩

হিজাব না পরলে ইরানে ১০ বছরের জেল

বৃহস্পতিবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২৩