Logo
আজঃ সোমবার ২৪ জুন 20২৪
শিরোনাম
মতিউর ও তার স্ত্রী-সন্তানদের বিদেশ যেতে নিষেধাজ্ঞা তরুণরাই বদলে যাওয়া বাংলাদেশকে এগিয়ে নেবে: প্রধানমন্ত্রী নতুন সেনাপ্রধানের বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধাজ্ঞাপন ভূয়া সৈনিক পরিচয়ে বিয়ে করে শশুড় বাড়ী শিকলবন্দী জামাই! খাগড়াছড়িতে পুনাক কমপ্লেক্স এর উদ্বোধন করলেন: পার্বত্য প্রতিমন্ত্রী কুজেন্দ্র লাল এিপুরা হিজবুল্লাহর সঙ্গে যুদ্ধ বাধলে ইসরায়েলকে সমর্থন দেবে যুক্তরাষ্ট্র হজ চলাকালীন ১৩০১ জন হজযাত্রীর মৃত্যু: সৌদি আরব সেতু ভেঙ্গে নয়জন নিহতের ঘটনায় দুইটি তদন্ত কমিটি গঠন, মাইক্রোবাস উদ্ধার বর ও কনের বাড়ীতে শোকের মাতম রাশিয়ায় বন্দুকধারীদের ভয়াবহ হামলায় ১৫ পুলিশ সদস্য নিহত

খাগড়াছড়িতে আশ্রয়ন প্রকল্পের অসহায় মানুষে মাঝে পুলিশ সুপার মুক্তা ধর এর ঈদ উপহার বিতরণ

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১১ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ | ৭৯জন দেখেছেন

Image
জসীম উদ্দিন জয়নাল,পার্বত্যাঞ্চল প্রতিনিধি:পবিত্র ঈদ-উল আযহা  উপলক্ষে খাগড়াছড়িতে আশ্রয়ন প্রকল্পের দু:স্থ ও অসহায় মানুষদের মাঝে পুলিশ সুপারের ঈদ উপহার সামগ্রী বিতরণ।

রবিবার  ( ৯ জুন )  বিকালে খাগড়াছড়ির শালবাগান আশ্রয়ন প্রকল্পের দু:স্থ ও অসহায় মানুষদের মাঝে ঈদের আনন্দ ভাগ করে নিতে  ঈদ উপহার সামগ্রী বিতরণ করেছেন খাগড়াছড়ি  পুলিশ সুপার  মুক্তা ধর পিপিএম (বার)।

খাগড়াছড়ি পুলিশ সুপার মুক্তা ধর পিপিএম (বার) বলেন, “ঈদ মানেই খুশি, ঈদ মানেই আনন্দ। আসন্ন পবিত্র ঈদ-উল-আযহা  মুসলমানদের জীবনে এক স্বর্গীয় শান্তি ও আনন্দের বার্তা নিয়ে আসে। সমাজে একটি অংশ রয়েছে যাদের কাছে ঈদ-আনন্দ মানেই হলো বেঁচে থাকার লড়াই। দু’বেলা খাওয়ার সংগ্রাম। আজো রয়েছে দুঃখী মানুষের ভীড়। আমরা কি পারিনা- তাদের দুঃখ লাঘবের চেষ্টা করতে। তাদের মুখে একটু হাসি ফোঁটাতে। নতুন পোশাক বা ঈদের অন্য আনন্দগুলো তাদের সাথে ভাগাভাগি করতে। সমাজের বিত্তবানদের প্রতি অনুরোধ, আপনারাও অসহায় ও দু:স্থ মানুষের পাশে দাঁড়ান। বিলাসী ঈদ উদ্যাপনের পরিবর্তে দুঃস্থ  মানুষের পাশে দাঁড়িয়ে সম্মিলিতভাবে আনন্দের ঈদ উদ্যাপন করি৷

আশ্রয়ন প্রকল্পের এক বাসিন্দা আব্দুল হান্নান বলেন যে, আমি খেটে খাওয়া মানুষ। বয়সের ভারে এখন শরীরে শক্তি পাইনা যার জন্য কাজও করতে পারিনা। এই বছর ঈদ উপলক্ষে কিছু কিনতে পারি নাই। পুলিশ সুপার স্যার আমাদের জন্য ঈদ উপহার নিয়ে এসেছেন। এর চেয়ে আনন্দের আমাদের জন্য আর কি হতে পারে। আমরা সবাই স্যারের জন্য দোয়া করি আর যেন ভবিষ্যতে আমাদের মত অসহায় ও দু:স্থ মানুষদের পাশে এভাবেই মানবিকতার হাত বাড়িয়ে দিতে পারে। 

এসময় উপহার পেয়ে অসহায় ও দুঃস্থ  মানুষজন কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে বলেন যে, পুলিশ সুপার মহোদয়ের থেকে উপহার পেয়ে ঈদের আনন্দ আরও বেড়ে গেলো। আগে কোনো স্যার এভাবে আমাদের কথা ভাবেনি। স্যার সবসময়ই আমাদের খুজ খবর রাখেন। আজ আবার ঈদ উপহার দিয়েছেন। সত্যিই আমরা অনেক আনন্দিত।আল্লাহ পুলিশ সুপার মহোদয়ের মঙ্গল করুক। 

উল্লেখ্য যে এর আগেও খাগড়াছড়ি জেলার সুযোগ্য পুলিশ সুপার মহোদয় দু:স্থ নারী,এতিম শিশু,অসহায় মানুষ,তৃতীয় লিঙ্গের সুবিধাবঞ্চিত মানুষজনদের পাশে বিভিন্ন সময় উপহার সামগ্রী বিতরণ করে মানবিকতার উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন।

এ সময় খাগড়াছড়ি জেলা পুলিশের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ সহ এলাকার গণ্যমান্য ব্যাক্তিবর্গ সংবাদকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

আরও খবর



বজ্রপাতে পত্নীতলায় দুজনের মৃত্যু

প্রকাশিত:শনিবার ০৮ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ | ৯৮জন দেখেছেন

Image
দিলিপ চৌহান, পত্নীতলা (নওগাঁ) প্রতিনিধি:পত্নীতলায় বজ্রপাতে দুজনের মৃত্যু হয়েছে। শুক্রবার  বিকেলে উপজেলার উপর দিয়ে বয়ে যাওয়া প্রবল ঝড় ও বৃষ্টিপাতের সময় বজ্রপাতে এঘটনা ঘটে। 

নিহতরা হলো উপজেলার পাটিচরা ইউপির গাহন মধ্যপাড়া গ্রামের আব্দুল মজিদের মেয়ে মনিকা খাতুন (৩২) এবং একই ইউপির নাগরগোলা গ্রামের নব মুসলিম খাদিমুল ইসলাম (৪০)।

জানা গেছে, বৃষ্টিপাতের সময় মনিকা খাতুন ছাগল নেয়ার জন্য মাঠে গেলে বজ্রপাতে সেখানেই তার মৃত্যু হয় এবং একই ভাবে নাগরগোলা গ্রামের নব মুসলিম খাদিমুল ইসলাম বৃষ্টির সময় বাড়ির বাহিরে আম গাছের নিচে গেলে বজ্রপাতে তারও মৃত্যু হয়। এব্যাপারে পত্নীতলা থানার অফিসার ইনচার্জ মোজাফফর হোসেনের সাথে যোগাযোগ করলে তিনি বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।


আরও খবর



পত্নীতলায় ভূমিসেবা সপ্তাহ দিবস পালিত

প্রকাশিত:শনিবার ০৮ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২১ জুন ২০২৪ | ৭৩জন দেখেছেন

Image
দিলিপ চৌহান, পত্নীতলা (নওগাঁ) প্রতিনিধি:"স্মার্ট ভূমিসেবা, স্মার্ট নাগরিক" প্রতিপাদ্যে ভূমি সেবা সপ্তাহ দিবস উদযাপন উপলক্ষে পত্নীতলায় উপজেলা ভূমি অফিসের আয়োজনে শনিবার উপজেলা চত্বরে র‍্যালী শেষে উপজেলা সভাকক্ষে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

ভূমি সেবা সপ্তাহ উদযাপন উপলক্ষে ফিতা কেটে দিবসের উদ্বোধন শেষে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোছাঃ পপি খাতুনের সভাপতিত্বে উক্ত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব আব্দুল গাফফার। এসময় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান আব্দুল আহাদ রাহাত, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান সাবিনা বেগম। এসময় উপস্থিত ছিলেন জাতীয় মহিলা সংস্থা পত্নীতলার দায়িত্ব প্রাপ্ত অফিসার আমিনুল হক, জাইকা'র রাইহানুল আলম, বহবলপুর ভূমি কর্মকর্তা এনামুল হক, উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ কর্মকর্তা মসিউর রহমান, উপজেলার অন্যান্য কর্মকর্তাবৃন্দ, উপজেলা ও ইউনিয়ন ভূমি কর্মকর্তা-কর্মচারীবৃন্দ সূধীজন প্রমুখ।

এসময় বক্তারা বলেন, ভূমি ব্যবস্থাপনায় জনগণের হয়রানি বন্ধ করতে এবং এই সংক্রান্ত সেবা সহজলভ্য করতে ভূমি সেবাকে জনগণের দ্বোরগোড়ায় নিয়ে যেতে নানা কার্যক্রম গ্রহণ করেছে সরকার। তথ্য প্রযুক্তিকে কাজে লাগিয়ে ঘরে বসেই যেন সাধারণ মানুষ ভূমি সুরক্ষাসহ অন্যান্য কার্যক্রম সম্পন্ন করতে পারে, সেজন্য স্থাপিত হয়েছে ভূমি সেবা প্ল্যাটফর্ম। এটি সকরকারের ডিজিটালাইজেশনের অন্যতম একটি সেবা খাত। এর ফলে কোন নগদ লেন-দেন ছাড়াই ভূমিসেবা গ্রহীতারা কোন সময় ক্ষেপন ছাড়া ও হয়রানিমুক্তভাবে ইউনিয়ন ভূমি অফিস থেকে স্বচ্ছন্দে সেবা নিতে পারছেন। এতে করে সময় সাশ্রয়সহ সাধারণ নাগরিকদের অর্থ ব্যয়ও অনেক কমে আসবে।

আরও খবর



আফগানিস্তানের শুভসূচনা রেকর্ড গড়া জয় দিয়ে

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৪ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ | ১৩৩জন দেখেছেন

Image

স্পোর্টস ডেস্ক:আফগানিস্তানের লক্ষ্যটা উগান্ডার বিপক্ষে কেবল জয় না। রশিদ খানের দল চেয়েছিল রানরেটের ব্যবধানটাও এগিয়ে রাখতে। সেই লক্ষ্যে অনেকটাই সফল হয়েছে তারা। ১২৫ রানের বিশাল জয় দিয়ে বিশ্বকাপ মিশন শুরু করেছে দলটি।

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ইতিহাসে যা চতুর্থ বৃহত্তম জয়। রহমানউল্লাহ গুরবাজ আর ইব্রাহিম জাদরানের ফিফটির পর ফজল হক ফারুকির ফাইফার নিশ্চিত করেছে আফগানদের বড় জয়।

মঙ্গলবার (৪ মে) গায়ানায় উগান্ডার বিপক্ষে ১২৫ রানে জয় পেয়েছে রশিদ খানের দল। টস হেরে প্রথমে ব্যাট করে ৫ উইকেটে ১৮৩ রানের বড় সংগ্রহ পায় আফগানিস্তান। জবাবে ব্যাট করতে নেমে মাত্র ৫৮ রানেই গুটিয়ে যায় প্রথমবার টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ খেলতে আসা দল উগান্ডা। আফগানিস্তানের হয়ে ৫ উইকেট নিয়েছেন ফজলহক ফারুকী। ম্যাচ সেরাও হয়েছেন বাঁহাতি এই পেসার।

১৮৪ রানের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে শুরু থেকেই উইকেট হারাতে থাকে উগান্ডা। ফজলহক ফারুকীর প্রথম ওভারেই দুই উইকেট হারায় তারা। এরপর দ্বিতীয় ওভারেও উইকেট হারায় উগান্ডা। নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারাতে থাকে তারা। শেষ পর্যন্ত মাত্র ৫৮ রানে থামে উগান্ডার ইনিংস। উগান্ডার হয়ে মাত্র দুইজন ব্যাটসম্যান দুই অঙ্কের রান করতে পেরেছেন। তাতে ১২৫ রানে বিশাল জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে আফগানিস্তান।

আফগানদের হয়ে ফারুকী ৪ ওভার বোলিং করে ৯ রানে ৫ উইকেট নেন। এছাড়াও নবীন-উল-হক ২ ওভারে ৪ রানে দুইটি এবং অধিনায়ক রশিদ খান ৪ ওভারে ১২ রানে ২টি উইকেট পেয়েছেন। বাকি উইকেটটি পেয়েছেন মুজিব উর রহমান।

এর আগে দুই আফগান ওপেনার ইব্রাহিম জাদরান এবং রহমানুল্লাহ গুরবাজের ব্যাটিং তাণ্ডবে উগান্ডার বিপক্ষে বিশাল সংগ্রহ পায় রশিদ খানের দল। আফগানিস্তানের ওপেনিং জুটি থেকে আসে ১৫৪ রান। গুরবাজ ৪৫ বলে ৪ চার এবং সমান সংখ্যক ছক্কার মারে ৭৬ রানের ইনিংস খেলেন। অপরদিকে আরেক ওপেনার ইব্রাহিম জাদরান করেন ৪৬ বলে ৭০ রান। এই জুটি ভাঙার পরই রানের চাকা ধীরগতির হয়ে যায়। উগান্ডার নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ে দুই ওপেনার ছাড়া কোন ব্যাটসম্যান বাউন্ডারি হাঁকাতে পারেননি।

এদিকে মাত্র ৫৮ রানে অলআউট হয়ে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে লজ্জার রেকর্ডে নাম লিখিয়েছে উগান্ডা। বিশ্বকাপে চতুর্থ দলীয় সর্বনিম্ন রান এটি। বিশ্বকাপে সর্বনিম্ন দলীয় রানের রেকর্ডটি অবশ্য নেদারল্যান্ডসের দখলে। ২০১৪ বিশ্বকাপে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে মাত্র ৩৯ রানে অলআউট হয়েছিল ডাচরা।


আরও খবর



ইবিতে প্রজ্বলিত সন্ধ্যা অনুষ্ঠিত

প্রকাশিত:শনিবার ০১ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ | ১০৭জন দেখেছেন

Image
সাব্বির খান,ইবি প্রতিনিধি:ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় (ইবি) প্রজ্বলিত ৩৫ ব্যাচের উদ্যোগে 'প্রজ্বলিত সন্ধ্যা' শীর্ষক সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়েছে। প্রতি বছরের মতো ব্যাচ-ডে এর চলমান আয়োজন হিসেবে ব্যাচকে নতুনভাবে উপস্থাপন ও বিশ্ববিদ্যালয়ের অনন্য নজির স্থাপন করতে এ আয়োজন করে শিক্ষার্থীরা। অনুষ্ঠানটিতে ২০২০-২১ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থীরা ছাড়াও বিশ্ববিদ্যালয়ের অন্যান্য সকল ব্যাচের শিক্ষার্থীরা স্বতঃস্ফূর্ত অংশগ্রহণ লক্ষ্য করা যায়। 

অনুষ্ঠানটি সফল করতে গত ১৩ মে বিশ্ববিদ্যালয়ের ডায়েনা চত্বরে প্রথম আলোচনায় বসে শিক্ষার্থীরা। সেখানে কার্যবিবরণী উপস্থাপন ও দায়িত্ব বণ্টন করা হয়। পরবর্তীতে ব্যাচকে ব্যতিক্রমভাবে উপস্থাপন করতে একের পর এক নিদারুণ প্রমো ভিডিও শুটিংয়ের আয়োজন করা হয়। সর্বশেষ সকল জল্পনা-কল্পনার অবসান ঘটিয়ে গত বুধবার (২৯ মে) বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা মঞ্চে দুপুর ৩টা থেকে শুরু করে করে সন্ধ্যা সাড়ে ৭ টা পর্যন্ত সফলভাবে চলে এই অনন্য আয়োজন। 

অনুষ্ঠানটি সফল করতে অক্লান্ত পরিশ্রম করেছেন নাঈমুল ফারাবি, জান্নাতুল তামান্না, সাফিনুর তন্ময়, ফুয়াদ হাসান, রানা আহম্মেদ অভি, ফারিহা আঁখি, মোবারক হোসেন আশিক, জুবায়ের রনি, সিয়াম আহম্মেদ সিফাত, জো সিং, শাম্মী আক্তার, রাইসা আমীন লস্কর,  সাদিয়া আফরিন অমিন্তা, মাহবুবা নুপুর, সুদীপ রয়, মুজাহিদুর ইসলাম, মুবাশ্বির আমিন, ত্বাকি খাঁন, শাওয়ানা শামীম নিশু, শরীফ সৌরভ, আবু খায়ের, নয়ন পারভেজ, নাফিস তাহমিদ, আর্য পাল, সালমান শাওন, মাহমুদ খাঁন, আবু খায়ের, আবিদ ইমতিয়াজ, জুনাইদ মোস্তফাসহ আরও অনেকে। পুরো অনুষ্ঠানটির সঞ্চালনায় ছিলেন মিজানুর রহমান মিজান, রেজওয়ানা মিতীল, শাওয়ানা শামীম নিশু ও আব্দুল মাজেদ সাগর।

সাংস্কৃতিক সন্ধ্যাকে রাঙ্গিয়ে তুলতে গান করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের জনপ্রিয় ব্যান্ড দ্য সোবার। এছাড়া পারফর্ম করে বিশ্ববিদ্যালয়ের জনপ্রিয় শিল্পী সাফিউর রহমান, নুরুন্নবী সরকার নিরব, প্রতীক দা, বর্ষণ, আব্দুল্লাহ পারভেজ, ইশতিয়াক ইমন, গোলাম হক্কানিসহ আরও অনেকে অনেক শিল্পিরা৷ তাছাড়া অনুষ্ঠানটি আরও সুন্দর করে তুলবার জন্য বিশ্ববিদ্যালয়ের সংবর্ত-৩৬ থেকে অংশগ্রহণ করেন- বর্ণালী বর্ণা, মিম জাহান খুশি, নুসরাত ঐশি, ইফতিয়াক, আহনাফ ফুয়াদ, বাশুদেব প্রমুখ। 

অনুষ্ঠানটি সম্পর্কে প্রজ্বলিত ৩৫ ব্যাচ এর শিক্ষার্থী সাফিনুর তন্ময় বলেন,  'আমারা সবাই মিলে প্রজ্বলিত সন্ধ্যা আয়োজনটি সফল করেছি। ইবিতে প্রথমবারের মতো সকল ব্যাচের অংশ গ্রহণের মাধ্যমে একটি ব্যাচের প্রোগ্রাম অনুষ্ঠিত হয়েছে। আমরা প্রজ্বলিত ৩৫ ব্যাচ আগামীতে আপনাদের সামনে নতুন কিছু নিয়ে আসবো এটা প্রত্যাশা রাখছি। তাছাড়া অনুষ্ঠানটি সফল করার জন্য যারা বিভিন্নভাবে সাহায্য সহযোগিতা করেছে তাদের সবার প্রতি ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করছি।'

জান্নাতুল তামান্না বলেন, 'ক্যাম্পাসে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান করতে অনেক বেগ পোহাতে হয়। আমাদের আর্থিক সমস্যা ছিলো আমাদের শিক্ষকরা পাশে দাঁড়িয়েছেন এবং প্রশাসন সাহায্য করেছে। ক্লাস,পরিক্ষা থাকার পরও আমাদের ও আর্থিক সহযোগিতা করার কারণে আমরা প্রোগ্রামটি সুন্দর ভাবে সম্পন্ন করতে পেরেছি। দিনশেষে আমার সফল হয়েছি এমনকি অনেক মানুষের প্রচুর প্রশংসা কুড়িয়েছি এবং আমাদের শিক্ষকসহ, সিনিয়র-জুনিয়রদের অনেক ভালোবাসা পেয়েছি।ভবিষ্যতে এর থেকে ভালো কিছু করার আশা রাখছি। প্রত্যাশা রাখছি প্রজ্বলিত -৩৫ এই ক্যাম্পাসকে সামনে আরো বড় কিছু উপহার দিবে ইনশাআল্লাহ।'

সার্বিক বিষয়ে নাঈমুল ফারাবি বলেন, 'আয়োজনে অনেক প্রতিবন্ধকতা ছিল। পরিশেষে আয়োজন সফলতা পেয়েছে। প্রশাসন আমাদের সুন্দর আয়োজনের জন্য অভিবাদন জানিয়েছে, এটা আমাদের জন্য প্রাপ্তি। আমাদের আয়োজকদের কিছু ভুল ছিলো, তাছাড়া আয়োজনের আর কোনো সমস্যাই ছিলোনা। আমাদের প্রচারণা থেকে পারফরম্যান্স, স্টেজ ডেকোরেশন সবক্ষেত্রে নতুনত্বের ছোঁয়া ছিলো, এজন্য সবাই গ্রহণ করে নিয়েছে আমাদের। আমরা আশাবাদী ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের সংস্কৃতি চর্চা এভাবেই এগিয়ে যাবে, আমরা আরো প্রসিদ্ধ হবো। পরিশেষে বলতে চাই প্রোগ্রামের সফলতা প্রাণবন্ত দর্শকদের সর্বোচ্চ সংখ্যাক অংশগ্রহণেই ছিল। আমরা শিল্পকে ভালোবাসি, শিল্পীকে সম্মান করি।'

আরও খবর



রৌমারী হাটে অতিরিক্ত টোল আদায়ের অভিযোগ

প্রকাশিত:সোমবার ১০ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ | ৮৭জন দেখেছেন

Image

মাজহারুল ইসলাম,রৌমারী (কুড়িগ্রাম) প্রতিনিধি:কুড়িগ্রামের রৌমারী ও কর্ত্তিমারী হাটে ইজারাদার কর্তৃক সরকারের নিয়মনীতিকে বৃদ্ধাঙ্গুলী দেখিয়ে ক্রেতা বিক্রেতাদের কাছ থেকে সরকারের নির্ধারিত টোলের চাইতে অতিরিক্ত টোল আদায়ের অভিযোগ পাওয়া গেছে। ক্রেতা বিক্রেতারা বিপাকে।

হাট গুলো রৌমারী প্রসিদ্ধ হাট-বাজার ও কর্ত্তিমারী হাট-বাজার। এসব হাটে সরকার নির্ধারিত টোলের কোন তালিকা ঝুলানো হয়নি। প্রতিহাটে নিজেদের খেয়াল খুশিমত গরু, মহিষ ও ছাগল ভেড়ার বেচা কেনায় ক্রেতা বিক্রেতার উভয়ের নিকট থেকে অতিরিক্ত টোল আদায় করা হচ্ছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। টোল আদায়ের রশিদে কোন মূল্য লেখা হয় না। অতিরিক্ত টোল আদায় করে ইজারাদার লক্ষ লক্ষ টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে। অতিরিক্ত টাকায় প্রতিযোগীতা মূলক হাট নিয়ে এ অনিয়ম দুর্নীতি করা হচ্ছে। ক্রেতা বিক্রেতার নিকট  এিক্ষেত্রে হাট-দুটিতে তদন্ত পুবর্ক ভ্রাম্যমান আদালতের পরিচালনার দাবী জানিয়েছেন ক্রেতা বিক্রেতাগন।  

ক্রেতা বিক্রেতা গনের অভিযোগ, আমরা দুরদুরান্ত থেকে এসে রৌমারী হাটে গরু, মহিষ, ছাগল, ভেড়া বেচা কেনা করে আসছি। জেলা প্রশাসন অনুমোদিত টোল হার অনুযায়ী প্রতি গরু মহিষের শুধুমাত্র ক্রেতার কাছ থেকে ৩৫০ টাকা নেওয়ার নিয়ম থাকলেও এখানে ক্রেতার কাছে নেয়া হচ্ছে ৫০০ টাকা ও বিক্রেতার কাছে নেয়া হচ্ছে ৫০০ টাকা এবং ছাগল ভেড়া প্রতি শুধুমাত্র ক্রেতার কাছ থেকে ১০০ টাকা নেয়ার নিয়ম থাকলেও ক্রেতার কাছ থেকে ২০০ টাকা বিক্রেতার কাছ থেকে ২০০ টাকা নেয়া হচ্ছে। এতে বিপুল পরিমান অর্থ ইজারাদারের পকেটে গেলেও ক্ষতির সম্মুখিন হচ্ছে ক্রেতা বিক্রেতারা। 

জামালপুর থেকে হাটে আসা ব্যপারি জয়নাল হক, ফজর উদ্দিন ও জেল হক নামের ক্রেতা বলেন, আমরা বিভিন্ন হাটে গরু মহিষ ছাগল ভেড়া ক্রয় বিক্রয় করে আসছি। অন্য কোথাও দুই পক্ষের কাছ থেকে টোল আদায় দেখিনি। এখানে এসে দেখলাম উভয়ের কাছ থেকে টোল আদায় করা হচ্ছে, যাহা সরকারি মুল্যের চেয়ে অনেক বেশী। 

বকসিগঞ্জ থেকে আসা তৌফিকুর রহমান, জাহিদুল ইসলাম ক্রেতা বলেন, কোরবানির জন্য একটি ষাড় গরু কিনেছি। এর খাজনা দিতে আমাকে ৫০০ টাকা দিতে হয়েছে এবং বিক্রেতার কাছ থেকেও ৫০০ টাকা নেয়া হয়েছে। তবে রশিদের মধ্যে কোন টোল আদায়ের মূল্য থাকেনা। 

রৌমারী হাট ইজারাদার সাফায়াত বিন জাকির সৌরভের সাথে অতিরিক্ত টোল আদায়ের বিষয়ে জানার চেষ্টা করলে তার মোবাইল ফোনে পাওয়া যায় নি। 

উপজেলা নির্বাহী অফিসার নাহিদ হাসান খান বলেন, হাট ইজারা দেয়ার ৪ দিন পর হাটে অতিরিক্ত টোল, হাট পরিস্কার পরিচ্ছন্ন, হাটে দৃষ্টি নন্দন স্থানে টোল আদায়ের তালিকা টানানোসহ অনেক বিষয়ে জেলা প্রশাসকের নির্দেশে একটি আলোচনা সভার মাধ্যমে জানিয়ে দেয়া হয়েছে। অন্যদিকে কয়েকদিন হলো টোল আদায়ের তালিকা টানানোর তালিকা বোর্ড দেয়া হয়েছে। তবে অতিরিক্ত টোল আদায় ও টোল আদায়ের তালিকা বোর্ড বিষয়ে দেখবো। 

উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান শহিদুল ইসলাম জানান, জেলা প্রশাসক সাইদুল আরিফ বলেন, হাটে অতিরিক্ত টোল আদায় করা হয়ে থাকলে, দেখা হবে।


আরও খবর