Logo
আজঃ শনিবার ২৫ মে ২০২৪
শিরোনাম

কবে খনন করা হবে ফুলবাড়ী যমুনা নদী,পলি জমে ভরাট হয়ে গেছে

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১৬ এপ্রিল ২০২৪ | হালনাগাদ:শনিবার ২৫ মে ২০২৪ | ১০৭জন দেখেছেন

Image

ফুলবাড়ী, দিনাজপুর প্রতিনিধি:দিনাজপুর জেলার ফুলবাড়ী উপজেলার ফুলবাড়ী শহরের উপর দিয়ে বয়ে যাওয়া হাজার বছরের ছোট যমুনা নদীটি খনন না করায় এখন পলি জমে ভরাট হয়ে গেছে। নদীতে এখন ধুধু বালুচর। পানি নেই নদীতে। নদীটি প্রায় প্রস্তে ৩০০ ফিট থেকে ৪০০ ফিট। এক সময় এই ছোট যমুনা নদীটি খর¯্রােত ছিল। এই নদী দিয়ে পানি পথে বিভিন্ন জেলার ব্যবসায়ীরা নৌকায় করে ধান, পাট সহ বিভিন্ন পন্য আনা নেওয়া করত। কালের বিবর্তনে এখন আর ছোট যমুনা নদীতে নৌকা চলে না । ছোট যমুনা নদীতে এখন কৃষকেরা রবিশস্য সহ বিভিন্ন ফসল উৎপাদন করে। প্রায় ৩০ কি. ছোট যমুনা নদীটি এখন পানি শুন্য। এই নদীটি উত্তর থেকে এসে চিরিরবন্দর, পার্বতীপুর, ফুলবাড়ী, বিরামপুর, বাংলা হিলি, পাঁচবিবি ও জয়পুরহাট হয়ে বয়ে গেছে।এর মধ্যে নদীর কিছু অংশ ভারতরে মধ্যে পড়ে যায়। বর্তমান ছোট যমুনা নদীটি খনন না করার কারণে বর্ষ কালে পানিতে অতিরিক্ত ভরার হয়ে যাওয়ায় বেশ কয়েকটি গ্রামে পানি ঢুকে। এতে গ্রামগুলো সহ ফসলের ব্যপক ক্ষতিসাধন হয়। হাজার বছেরের পুরাতন এই ছোট যমুনা নদীটি পুনরায় খনন করা হয়ে একদিকে যেমন বর্ষকালে নদী সংলগ্ন গ্রামগুলি পানিতে প্লাবিত হবে না। অন্য দিকে বন্যার কবল থেকে রক্ষা পাবে আবদী জমি ও গ্রামগুলি। খনন করা হলে সারা বছর নদীতে পানি থাকবে এই পানি ব্যবহার করে কৃষকেরা জমিতে ফসল উৎপাদন করতে পারেবে। জেলেরা সারা বছর জীবন জীবিকা জন্য মাছ অহরন করতে পারবে। দীর্ঘ এক হাজার বছর ধরে এই নদীটি খনন করার কোন উদ্দ্যেগ নেই। সারা দেশে এমন নদী গুলি খনন কাজ শুরু হলেও ফুলবাড়ী ছোট যমুনা নদীটির খনন কাজ কবে শুরু হবে তা অনিশ্চিত।

এ বিষয়ে দিনাজপুর পানি উন্নয়ন বোর্ড এর প্রধান নির্বাহী প্রকৌশলী রাকিবুল হাসান এর সাথে ০১৭৫৪৪৯৫৭১১ এ নম্বরে কথা বললে তার মোবাইল ফোন বন্ধ পাওয়া যায়। তবে তিনি গত মাসে সরাসরি যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, অতি শিগ্রই প্রায় ১৫ কিলো মিটার নদীর খনন কাজ শুরু হবে। নদীটির খনন কাজ শুরু হলে এলাকার মানুষ উপকৃত হবে।


আরও খবর



সৈয়দপুরে অপরিপক্ব লিচু ও আম বিক্রি, স্বাস্থ্যঝুকির শঙ্কা

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৬ মে ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৪ মে 20২৪ | ৯৭জন দেখেছেন

Image

সৈয়দপুর (নীলফামারী) প্রতিনিধি:সৈয়দপুর শহরে অপরিপক্ব লিচু ও মিসরি ভোগ আম উঠতে শুরু করেছে। দেখতে আধপাকা মনে হলেও  জম্মের টক। একশ লিচু বিক্রি হচ্ছে ২৫০ টাকা আর এক কেজি মিসরি ভোগ আম বিক্রি হচ্ছে ১০০ টাকা কেজি দরে। স্বাস্হ্য  ঝুকি জানার পরেও অপরিপক্ক ওইসব লিচু আর আম কিনছেন  অসচেতন ক্রেতারা। যা খেয়ে পেটের পিরায় আক্রান্ত হচ্ছেন অনেকেই।প্রচন্ড গরমে অপরিপক্ক এসব ফল কেন বিক্রি করছেন জানতে চাইলে ব্যাবসায়িরা বলছেন, মৌসুমের নতুন ফল খাওয়ার সবারই আগ্রহ থাকে,এরফলে দামও পাওয়া যায় ভালো। একারনে,গ্রামের যেসব বাগানে লিচু হলকা লাল হয়েছে,সেগুলো বাগান মালিকদের বেশি দাম দিয়ে সংগ্রহ করে বিক্রি করছেন। 

সৈয়দপুর উপজেলা কৃষি অধিদপ্তর বলছে দিনাজপুর ও রাজশাহীর লিচু হলো উত্তরবঙ্গের সুস্বাদু লিচু। এই লিচু পরিপক্ব হতে এখনো ২০/২৫ দিন বাকি। আর মিসরি ভোগ আম সুস্বাদু হয় বদরগন্জের খাগরাবন ও রাজশাহীর। তেমনি হাড়ি ভাংগা আমের জন্য বিখ্যাত রংপুর। এসব আম পরিপক্ব হয়ে পাকতে এখনো ২০/২৫ দিন সময় লাগবে।বাজারে যেসব লিচু ও আম বিক্রি করা হচ্ছে সেগুলির কোনটাই পরিপক্ব নয়। আইন প্রয়োগ কারি সংস্হার উচিত অভিযান চালায়ে মোটা অংকের জরিমানা করা। 
সৈয়দপুর ১০০ বিশিষ্ট হাসপাতালের শিশু রোগ বিশেষজ্ঞ ডাক্তার ওয়াসিম বারি জয় বলেন, অপরিপক্ক যে কোন ফল খেলে স্বাস্থ্য ঝুঁকি সহ মারাত্মক ভাবে শারীরিক সমস্যা হতে পারে। তিনি অপরিপক্ক কোন ফলই বিক্রি না করার জন্য ব্যবসায়িদের অনুরোধ জানান। 

দুলাল নামের এক আড়তদার বলেন, সৈয়দপুর শহরের সব আড়তদারদের বদনাম করে ছেড়েছেন গিয়াস নামের এক ফল আড়তদার। তিনি বলেন, যেখানে কৃষি অধিদপ্তর, ও ডাক্তার বলছেন অপরিপক্ক ফল খেলে স্বাস্থ্য ঝুঁকি বাড়ে, সেখানে তিনি তাদের কথার তোয়াক্কা না করে, অতিরিক্ত লাভের আশায় অপরিপক্ক লিচু ও মিসরি ভোগ আম বিক্রি করে চলেছেন। এসব ব্যবসায়ির মোটা অংকের জরিমানা সহ জেল দেয়া উচিত বলে মন্তব্য করেন তিনি। সাদেক পাগলা নামের এক ক্রেতা বলেন,বছরের প্রথম ফল তো তাই কিনলাম। বিক্রেতা বললেন ফল গুলো মিষ্টি হবে, এখন দেখছি জম্মের টক।

ফল বিক্রেতা গিয়াস জানান, লাভের আশায় আম ও লিচু সংগ্রহ করে বিক্রি করছি। তিনি বলেন সব মাছই ময়লা খায় শুধু নাম হয় নাড়িয়া মাছের। অনেকের আড়তেই অপরিপক্ক ফল আছে এবং তারা দাপটের সাথেই তা বিক্রি করছেন। কিন্তু তাদের প্রশাসন সহ কেউই কিছু বলেন না। অভিযান যদি চালাতেই হয়, তাহলে সকল অবৈধ ব্যবসায়ির বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্হা নেয়ার দাবী করেন তিনি। 

আরও খবর



টুঙ্গিপাড়ায় বঙ্গবন্ধুর সমাধিতে প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা

প্রকাশিত:শুক্রবার ১০ মে ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২৩ মে ২০২৪ | ১২১জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নিজ বাড়ি ও নির্বাচনী এলাকা গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়া পৌঁছেছেন। একদিনের সফরে শুক্রবার সকাল সাড়ে ৭টার দিকে গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ার উদ্দেশে সড়ক পথে যাত্রা করেন শেখ হাসিনা। সকাল পৌনে ১০টার দিকে গোপালগঞ্জে পৌঁছান তিনি।     

এরপর প্রধানমন্ত্রী টুঙ্গিপাড়ায় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সমাধি সৌধে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। পাশাপাশি ফাতেহা পাঠ ও বিশেষ মোনাজাতে অংশ নেন।

এ সময় প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে তার ছোন বোন শেখ রেহানা, ভাই শেখ হেলালসহ পরিবারের সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

পরে 'আমার বাড়ি আমার খামার' কর্মসূচির আওতায় দাঁড়িয়ারকুল সমবায় সমিতির সদস্যদের মধ্যে ব্যক্তিগত তহবিল থেকে কৃষি উপকরণ ও নগদ সহায়তা দেবেন প্রধানমন্ত্রী। এ ছাড়া স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতা-কর্মীদের সঙ্গে মতবিনিময় করবেন। এরপর বিকেলে ঢাকায় ফিরে আসবেন শেখ হাসিনা।

এদিকে প্রশাসনের পক্ষ থেকে টুঙ্গিপাড়াসহ জেলাজুড়ে নেওয়া হয়েছে কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা।


আরও খবর



বিদ্যুৎ সাশ্রয়ের নিমিত্তে গণসচেতনতা সৃষ্টির লক্ষ্যে নেসকোর উদ্যোগে গ্রাহক সমাবেশ

প্রকাশিত:সোমবার ২০ মে ২০24 | হালনাগাদ:শনিবার ২৫ মে ২০২৪ | ৫৭জন দেখেছেন

Image
রাকিব সিরাজগঞ্জ থেকে:সিরাজগঞ্জে বিদ্যুৎ সাশ্রয়ের নিমিত্তে বিদ্যুৎ বিভাগ কতৃক কর্মপরিকল্পনার বিষয়ে গণসচেতনতা সৃষ্টির লক্ষ্যে নেসকোর উদ্যোগে গ্রাহক সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে।

সোমবার সকালে সিরাজগঞ্জ পাওয়ার হাউজ কলোনী রেস্টহাউজ হলরুমে অনুষ্ঠিত এই গ্রাহক সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন নেসকো পিএলসি পাবনার তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী মো: রবিউল ইসলাম। 

এ সময় উপস্থিত নেসকোর আওতাধীন বিভিন্ন পর্যায়ের গ্রাহকগণের মাঝে বিদ্যুৎ সাশ্রয়ে বিভিন্ন পরামর্শ প্রদান করা হয়। সেই সাথে উপস্থিত গ্রাহকগণ আরও উন্নত বিদ্যুৎ সেবা নিশ্চিতে নেসকো কতৃপক্ষের নিকট বিভিন্ন দিক তুলে ধরেন এবং বিদ্যুৎ সাশ্রয়ে আরও সচেতন হওয়ার অঙ্গীকার করেন।

এ সময় নেসকো সিরাজগঞ্জের বিক্রয় ও বিতরণ বিভাগ-১ এর নির্বাহী প্রকৌশলী আব্দুল্লাহ আল ফারুক, বিক্রয় ও বিতরণ বিভাগ-২ এর নির্বাহী প্রকৌশলী অশীথ পোদ্দার এবং নেসকো সিরাজগঞ্জ এর বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তা ও গ্রাহকগণ উপস্থিত ছিলেন।

আরও খবর



রূপগঞ্জে উপজেলা পরিষদ নির্বাচনী প্রচারণা তৃতীয় দিন

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৭ মে ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২৩ মে ২০২৪ | ১৪৬জন দেখেছেন

Image

আবু কাওছার মিঠু রূপগঞ্জ নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধিঃআসন্ন রূপগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে স্মার্ট রুপগঞ্জ বিনির্মাণের লক্ষ্যে, বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের পরিচালক, গাজী গ্রুপের সম্মানিত ব্যবস্থাপনা পরিচালক, রূপগঞ্জ উপজেলা আওমিলীগের সহ-সভাপতি, গাজী গোলাম মোর্তজা পাপ্পা গাজী এর নেতৃত্বে নির্বাচনী প্রচারণা করেন, রুপগঞ্জ উপজেলা চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী মোহাম্মদ হাবিবুর রহমান হাবিব, দোয়াত কলম মার্কায় ভোট চেয়ে নির্বাচনী প্রচারণা করেন। 

৭ ই মে নির্বাচনী প্রচারণায়  তৃতীয় দিনে  রূপগঞ্জ মুড়াপারা এলাকায় আজ জনসংযোগ করেন। 

নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে মুক্তিযুদ্ধের পক্ষ সমর্থিত রূপগঞ্জ উপজেলা আওয়ামীলীগের কার্যকরী সদস্য আলহাজ্ব হাবিবুর রহমান হাবিব ও রূপগঞ্জ ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান আবু হোসন ভুঁইয়া রানু প্রতিদ্বন্দ্বিতা  করবেন। ভাইস চেয়ারম্যান পদে নারায়ণগঞ্জ জেলা পরিষদের সাবেক সদস্য মিজানুর রহমান ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে রূপগঞ্জ উপজেলা যুব মহিলালীগের সভাপতি ফেরদৌসী আক্তার রিয়া বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়  নির্বাচিত। অন্য সকল প্রার্থীরা মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করায় ও ক্যাসিনোকান্ডের সেলিম প্রধানের চেয়ারম্যান পদের মনোনয়নপত্র বাতিল হওয়ায় এ অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে।  

জানা গেছে, রূপগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থী রূপগঞ্জ উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি তাবিবুল কাদির তমাল, রূপগঞ্জ উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি গাজী গোলাম মূর্তজা পাপ্পা মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করেন। মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করেন ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী আইনজীবী স্বপন ভুঁইয়া, রূপগঞ্জ উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক হাবিবুর রহমান হারেজ, স্থানীয় তাঁতীলীগ নেতা রাসেল আহমেদ।

এছাড়া মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করেন রূপগঞ্জ উপজেলা আওয়ামীলীগের মহিলা বিষয়ক সম্পাদক তিন বারের নির্বাচিত মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান সৈয়দা ফেরদৌসী আলম নীলা, রূপগঞ্জের দাউদপুর ইউনিয়ন মহিলালীগের সাধারণ সম্পাদক ফেরদৌসী জান্নাত রুমা ও স্থানীয় যুব মহিলালীগ নেত্রী তানিয়া সুলতানা। এছাড়া দুদকের মামলায় সাজাপ্রাপ্ত হয়ে কারাভোগের কারনে রূপগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আলোচিত অনলাইন ক্যাসিনোকান্ডের সেলিম প্রধানের চেয়ারম্যান পদের মনোনয়নপত্র বাতিল করেছে নির্বাচন কমিশন। সে কারনে রূপগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান পদে রূপগঞ্জ উপজেলা আওয়ামীলীগের কার্যকরী পরিষদের সদস্য হাবিবুর রহমান হাবিব ও রূপগঞ্জ ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যানন আবু হোসন ভুঁইয়া রানু চেয়ারম্যান পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।  ভাইস চেয়ারম্যান পদে নারায়ণগঞ্জ জেলা পরিষদের সাবেক সদস্য মিজানুর রহমান ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে রূপগঞ্জ উপজেলা যুব মহিলালীগের সভাপতি ফেরদৌসী আক্তার রিয়া বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়  নির্বাচিত।

এ ব্যাপারে সাবেক বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী বর্তমান সংসদ সদস্য গোলাম দস্তগীর গাজী বীরপ্রতীকের পুত্র রূপগঞ্জ উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি গাজী গোলাম মূর্তজা পাপ্পা চেয়ারম্যান পদের মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করে বলেন, আসন্ন উপজেলা পরিষদ নির্বাচনকে প্রভাবমুক্ত রাখতে আওয়ামীলীগের এমপি-মন্ত্রীদের আত্মীয় -স্বজনদেরও প্রার্থী হতে নিষেধ করেছেন দলীয় সভাপতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। দলীয় কোন্দল নিরসন এবং নির্বাচনকে অংশগ্রহণমূলক করতেই প্রধানমন্ত্রীর এই সিদ্ধান্তকে সাধুবাদ জানাই।

এবারের রূপগঞ্জ উপজেলা নির্বাচনে মোট ভোট কেন্দ্র ১৪২টি। পুরুষ ভোটার ২ লক্ষ ৫১ জন, মহিলা ১ লক্ষ ৯০ হাজার ৫৫৪জন ও হিজড়া ২ জন। মোট ভোটার সংখ্যা ৩ লক্ষ ৯০ হাজার ৬০৭ জন। নির্বাচনের তফসিল অনুযায়ী ২মে প্রতীক বরাদ্দ ও ২১মে রূপগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে।

  -খবর প্রতিদিন/ সি.ব


আরও খবর



সেনাপ্রধান যুক্তরাষ্ট্র গেলেন

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১৪ মে ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২৩ মে ২০২৪ | ১০২জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:সেনাবাহিনীর প্রধান জেনারেল এস এম শফিউদ্দিন আহমেদ যুক্তরাষ্ট্র সেনাবাহিনীর আমন্ত্রণে সরকারি সফরে যুক্তরাষ্ট্রে গেছেন। দেশটির হাওয়াই অঙ্গরাজ্যে দ্য ল্যান্ড ফোর্সেস প্যাসিফিক (ল্যানপ্যাক) কনফারেন্সে যোগ দেবেন তিনি।

সোমবার (১৩ মে) আন্তঃবাহিনী জনসংযোগ পরিদপ্তর (আইএসপিআর) থেকে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

এতে বলা হয়েছে, সফরকালে তিনি যুক্তরাষ্ট্রের হাওয়াই অঙ্গরাজ্যে আগামী ১৪-১৬ মে পর্যন্ত অনুষ্ঠেয় ল্যান্ড ফোর্সেস প্যাসিফিক (ল্যানপ্যাক) সিম্পোজিয়াম অ্যান্ড এক্সপোজিশন-২০২৪ এ অংশ নেবেন।

বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, এ সিম্পোজিয়ামের লক্ষ্য হলো- ইন্দো-প্যাসিফিক অঞ্চলের স্থল বাহিনীগুলোর মধ্যে সম্পর্ক উন্নয়নের মাধ্যমে পারস্পরিক আস্থার পরিবেশ সৃষ্টি করা, পেশাদার সম্পর্ক উন্নয়ন ও আঞ্চলিক নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করা।

সিম্পোজিয়ামে অংশ নেওয়ার পাশাপাশি বাংলাদেশ সেনাপ্রধান মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য, ফ্রান্স ও অস্ট্রেলিয়াসহ বিভিন্ন দেশ থেকে আগত সেনাপ্রধান ও উচ্চপদস্থ সামরিক কর্মকর্তাদের বৈঠকে অংশ নেবেন তিনি। বৈঠকে পারস্পরিক সহযোগিতার বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা করবেন তারা।

উল্লেখ্য, সিম্পোজিয়াম শেষে আগামী ১৯ মে দেশে ফিরবেন সেনাপ্রধান।


আরও খবর