Logo
আজঃ Wednesday ১০ August ২০২২
শিরোনাম
নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজারে ২৪৩৫ লিটার চোরাই জ্বালানি তেলসহ আটক-২ নাসিরনগরে বঙ্গ মাতার জন্ম বার্ষিকি পালিত রূপগঞ্জে বীর মুক্তিযোদ্ধাদের মধ্যে ডিজিটাল সনদ ও জাতীয় পরিচয়পত্র বিতরণ কাউন্সিলর সামসুদ্দিন ভুইয়া সেন্টু ৬৫ নং ওয়ার্ডে ভোটার তালিকা হালনাগাদ কর্মসুচীতে অংশগ্রহন করেন চান্দিনা থানায় আট কেজি গাঁজাসহ মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার নাসিরনগরে ছাত্রদলের বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ সমাবেশ নাসিরনগর বাজারে থানা সংলগ্ন আব্দুল্লাহ মার্কেটে দুই কাপড় দোকানে দুর্ধষ চুরি। ই প্রেস ক্লাব চট্রগ্রাম বিভাগীয় কমিটির মতবিনিময় সম্পন্ন ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ৬ কেজি গাঁজাসহ হাইওয়ে পুলিশের হাতে আটক এক। সোনারগাঁয়ে পুলিশ সোর্স নাম করে ডাকাত শাহ আলমের কান্ড

জর্ডানে বিষাক্ত গ্যাস লিকেজে ১২ জনের মৃত্যু

প্রকাশিত:Tuesday ২৮ June ২০২২ | হালনাগাদ:Wednesday ১০ August ২০২২ | ৭৯জন দেখেছেন
Image

জর্ডানের দক্ষিণাঞ্চলের বন্দরনগরী আকাবায় একটি ট্যাংকার থেকে বিষাক্ত গ্যাস লিকেজ হয়ে অন্তত ১২ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ ঘটনায় অসুস্থ হয়ে পড়েছেন আরও ২৫০ জন। স্থানীয় সময় সোমবার (২৭ জুন) এ দুর্ঘটনা ঘটে।

এএফপির তথ্য বলছে, কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, ট্যাংকারে করে বিষাক্ত ক্লোরিন গ্যাস নিয়ে যাওয়ার সময় তা লিকেজ হয়ে ছড়িয়ে পড়ে।

সিসিটিভির ফুটেজে দেখা গেছে যে, হঠাৎই হলুদ রঙের বিষাক্ত গ্যাস ছড়িয়ে পড়া শুরু করে চারিদিকে।

দেশটির সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, জিবুতিতে রপ্তানি করা ২৫ টন ক্লোরিন গ্যাস ভর্তি একটি ট্যাংক পরিবহনের সময় লিকেজ হয়ে যায় এবং গ্যাস ছড়িয়ে পড়ে।

দুর্ঘটনার পর ওই এলাকায় প্রবেশ নিষিদ্ধ করেছে কর্তৃপক্ষ। অসুস্থ হয়ে পড়া অনেককে উদ্ধার করে হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে।
এখনো হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ১৯৯ জন।

স্থানীয় স্বাস্থ্যবিষয়ক কর্মকর্তা জামাল ওবেদাত ঘটনাস্থল থেকে ২৫ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত আবাসিক এলাকার লোকজনকে বাড়ির ভেতরে থাকার এবং ঘরের দরজা জানালা বন্ধ রাখার পরামর্শ দিয়েছেন।

সূত্র: এএফপি, এনডিটিভি


আরও খবর



বসুন্ধরা গ্রুপে ম্যানেজার পদে চাকরি

প্রকাশিত:Monday ০৮ August ২০২২ | হালনাগাদ:Tuesday ০৯ August ২০২২ | ২১জন দেখেছেন
Image

শীর্ষস্থানীয় শিল্পপ্রতিষ্ঠান বসুন্ধরা গ্রুপে ‘ম্যানেজার’ পদে জনবল নিয়োগ দেওয়া হবে। আগ্রহীরা আগামী ০৬ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত আবেদন করতে পারবেন।

প্রতিষ্ঠানের নাম: বসুন্ধরা গ্রুপ
বিভাগের নাম: এইচএসই, বিওজিসিএল

পদের নাম: ম্যানেজার
পদসংখ্যা: নির্ধারিত নয়
শিক্ষাগত যোগ্যতা: বিএসসি (কেমিক্যাল/মেকানিক্যাল/পেট্রোলিয়াম/ইলেক্ট্রিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং)
অভিজ্ঞতা: ০৩-০৫ বছর
বেতন: আলোচনা সাপেক্ষে

চাকরির ধরন: ফুল টাইম
প্রার্থীর ধরন: নারী-পুরুষ
বয়স: নির্ধারিত নয়
কর্মস্থল: ঢাকা (দক্ষিণ কেরাণীগঞ্জ)

আবেদনের নিয়ম: আগ্রহীরা jobs.bdjobs.com এর মাধ্যমে আবেদন করতে পারবেন।

আবেদনের শেষ সময়: ০৬ সেপ্টেম্বর ২০২২

সূত্র: বিডিজবস ডটকম


আরও খবর



কেরানীগঞ্জে ধর্ষণ মামলার পলাতক আসামি গ্রেফতার

প্রকাশিত:Monday ০১ August ২০২২ | হালনাগাদ:Tuesday ০৯ August ২০২২ | ২২জন দেখেছেন
Image

ঢাকার দক্ষিণ কেরানীগঞ্জে মো. রবিউল (৩৮) নামে ধর্ষণ মামলার এক পলাতক আসামিকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব-১০)।

সোমবার (১ আগস্ট) র‌্যাব-১০ এর এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে রোববার (৩১ জুলাই) র‌্যাব-১০ এর একটি দল ঢাকা জেলার দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানার চর খাসকান্দি এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে। অভিযানে দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানায় দায়ের করা ধর্ষণ মামলায় ওয়ারেন্টভুক্ত আসামি রবিউলকে গ্রেফতার করা হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, রবিউলকে গ্রেফতারের সময় তার কাছ থেকে একটি মোবাইল ফোন ও নগদ ১ হাজার ৯০ টাকা জব্দ করা হয়েছে। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে রবিউল উক্ত ঘটনার সঙ্গে তার সংশ্লিষ্টতার সত্যতাও স্বীকার করেছেন।

গ্রেফতারের পর রবিউলকে সংশ্লিষ্ট থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে বলেও জানায় র‌্যাব।


আরও খবর



ফেনীতে ছাত্রকে বলাৎকারের অভিযোগে মাদরাসাশিক্ষক গ্রেফতার

প্রকাশিত:Thursday ২৮ July ২০২২ | হালনাগাদ:Wednesday ১০ August ২০২২ | ১৩জন দেখেছেন
Image

ফেনীর দাগনভূঞা উপজেলার একটি মাদরাসার আবাসিক ছাত্রকে (১২) বলাৎকারের অভিযোগে শিক্ষককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। বুধবার রাতে গ্রেফতার ওই শিক্ষককে বৃহস্পতিবার (২৮ জুলাই) সকালে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

অভিযুক্ত শিক্ষক আব্দুল্লাহ আল মাসুম (২২) নোয়াখালীর বেগমগঞ্জ উপজেলার আমান উল্যাহপুর ইউনিয়নের খেম চন্দ্রপুর গ্রামের বাসিন্দা ।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, সম্প্রতি মাদরাসা শিক্ষক আব্দুল্লাহ আল মাসুম ওই ছাত্রকে ঘুম থেকে তুলে বলৎকার করেন। এরপর ঘটনাটি কাউকে না বলার জন্য তাকে ভয় দেখান। বলাৎকারের শিকার ছাত্র কৌশলে মাদরাসা থেকে বাড়িতে এসে অভিভাবকদের কাছে ঘটনাটি প্রকাশ করে। পরে রাতে ছাত্রের নানি থানায় মামলা করেন। অভিযোগ পেয়ে বুধবার রাতেই পুলিশ মাদরাসায় অভিযান চালিয়ে শিক্ষককে গ্রেফতার করে।

দাগনভূঞা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. হাসান ইমাম ওই মাদরাসাশিক্ষককে গ্রেফতারের সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, আসামিকে মামলার অল্প সময়ের মধ্যে গ্রেফতার করা হয়। বৃহস্পতিবার সকালে তাকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।


আরও খবর



ন্যূনতম মজুরি ২০ হাজার টাকাসহ আট দফা দাবিতে সমাবেশ

প্রকাশিত:Friday ২৯ July ২০২২ | হালনাগাদ:Tuesday ০৯ August ২০২২ | ১৮জন দেখেছেন
Image

ন্যূনতম মজুরি ২০ হাজার টাকা করাসহ ৮ দফা দাবি জানিয়েছে বাংলাদেশ শ্রমিক কর্মচারী ফেডারেশন। একই সঙ্গে শ্রমিক শ্রেণিকে দাবি আদায়ে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহ্বান জানিয়েছে সংগঠনটি।

শুক্রবার (২৯ জুলাই) রাজধানীর জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে লাল পতাকা মিছিল ও সমাবেশে এ আহ্বান জানায় সংগঠনটি।

কতিপয় মালিকগোষ্ঠীর মুনাফার কারণে নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসের দাম দফায় দফায় বাড়ছে উল্লেখ করে সমাবেশে বক্তারা বলেন, চাল, ডাল ও তেলসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসের দাম দফায় দফায় বাড়ানো হচ্ছে। অসহনীয় মূল্যবৃদ্ধির প্রতিবাদ ও মজুরি বৃদ্ধির দাবিতে শ্রমিকরা যখন আন্দোলন করছে, তখন সরকার রাষ্ট্রীয় পুলিশ বাহিনী, মামলা-মোকাদ্দমার ভয় দেখিয়ে নির্মমভাবে তা দমন করছে।

Labour-3

‘দেশের প্রধানমন্ত্রী দাবি আদায়ে মালিকদের ওপর চাপ সৃষ্টির পরিবর্তে আন্দোলনের কারণে শ্রমিকদের ‘আমও যাবে, ছালাও যাবে’ অর্থাৎ তাদের চাকরি চলে যাওয়ার হুমকি দেন।’

‘দেশে দোকান কর্মচারী, হোটেল কর্মচারী, গৃহ পরিচারিকা ও পরিবহন শ্রমিকসহ অসংগঠিত সেক্টরের শ্রমিকদের কাজ করার সময় সুনির্দিষ্ট নয়। স্বল্প মজুরিতে দৈনিক ১২-১৬ ঘণ্টা পর্যন্ত মালিকেরা মর্জিমাফিক তাদের কাজ করাচ্ছে, অন্যথায় ছাঁটাই করছে।’

‘শ্রমিকদের চাকরির নিয়োগপত্র, সুনির্দিষ্ট বেতন কাঠামো, ছুটি, কর্মস্থলে আহত হলে ক্ষতিপূরণ দেওয়ার বাধ্যবাধকতা সৃষ্টির কোনো আইন দেশে নেই। সরকারের কথিত এতো উন্নয়নকালেও সরকারি সব পাটকল এবং কয়েকটি চিনিকল বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।’

এ সময় বক্তারা বলেন, আজ থেকে নয়বছর পূর্বে ২০১৩ সালের ৮ জুলাই শ্রমিকদের দাবি-দাওয়া ও অধিকার নিয়ে আন্দোলন গড়ে তোলার প্রত্যয় নিয়ে এ সংগঠনের জন্ম। শ্রমিক আন্দোলনকে সুবিধাবাদ, অর্থনীতিবাদ থেকে মুক্ত করে গণতান্ত্রিক পথে পরিচালিত করার প্রয়াস নিয়ে যাত্রা শুরু করে সংগঠনটি।

তারা আরও বলেন, আজ সংগঠনের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন করার সময় আমরা দেখতে পাচ্ছি, সম্প্রতি সরকারঘোষিত বাজেটে শ্রমিকদের জীবনমান উন্নয়নে কোনো বরাদ্দ রাখা হয়নি। অথচ দেশে অবকাঠামো উন্নয়নের জন্য লাখ কোটি টাকা বরাদ্দ করা হয়েছে।

Labour-3

শ্রমিক শ্রেণিকে দাবি আদায়ে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহ্বান জানিয়ে বক্তারা বলেন, প্রয়োজনীয় দাবি নিয়ে যেমন লড়তে হবে, তেমনই বিপ্লবী ধারার ট্রেড ইউনিয়ন গড়ে তুলতে হবে। যাতে ভবিষ্যতে যেকোনো অন্যায়-অবিচারের প্রতিকার পাওয়ার পাশাপাশি বৈষম্যমূলক এই সমাজ বদলে শ্রমিকশ্রেণির রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠা করা যায়।

সমাবেশে সংগঠনটির বিভিন্ন স্তরের নেতারা উপস্থিত ছিলেন। এ সময় ৮ দফা দাবি তুলে ধরেন তারা। দাবিসমূহের মধ্যে রয়েছে-

১. গণতান্ত্রিক শ্রম আইন প্রণয়ন ও অবাধ ট্রেড ইউনিয়ন করার অধিকার দিতে হবে।
২. নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসের দাম কমাও এবং পূর্ণাঙ্গ রেশনিং ব্যবস্থা চালু করা।
৩. জাতীয় ন্যূনতম মজুরি ২০ হাজার টাকা ঘোষণা করা।
৪. বন্ধ পাটকল, চিনিকল চালুসহ সরকারি উদ্যোগে নতুন নতুন কারখানা স্থাপন করা।
৫. বেকারদের কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করা।
৬. লে-অফ, ছাঁটাই ও নির্যাতন বন্ধ করা।
৭. ব্যাটারিচালিত যানবাহনের ওপর চাঁদাবাজি বন্ধ করে লাইসেন্স ও রুট পারমিট দেওয়া।
৮. সকল শ্রমজীবী মানুষের জন্য শ্রমিক কলোনী নির্মাণ করা।


আরও খবর



ভালোবাসার প্রমাণ: এইডস আক্রান্ত প্রেমিকের রক্ত শরীরে নিলো কিশোরী

প্রকাশিত:Tuesday ০৯ August ২০২২ | হালনাগাদ:Wednesday ১০ August ২০২২ | ১২জন দেখেছেন
Image

মনের মানুষের প্রতি ভালোবাসা কতটা খাঁটি, তা প্রমাণ করতে গিয়ে নিজের জীবন বাজি ধরলো ভারতের এক কিশোরী। এইচআইভি আক্রান্ত প্রেমিকের রক্ত নিজের শরীরে প্রবেশ করিয়েছে ১৫ বছরের মেয়েটি। সম্প্রতি আসামের সুয়ালকুচি জেলার এ ঘটনায় শোরগোল পড়ে গেছে দেশটিতে।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যমগুলোর খবরে জানা যায়, আসামের হাজো শহরের এক যুবকের সঙ্গে ফেসবুকের মাধ্যমে পরিচয় হয়েছিল ওই কিশোরীর। প্রেমিক এইচআইভি/এইডস আক্রান্ত জেনেও পিছপা হয়নি সে। তাদের মধ্যে তিন বছরের প্রেমের সম্পর্ক। এমনকি প্রেমের টানে একাধিকবার বাড়ি থেকে পালিয়েও গিয়েছিল মেয়েটি। পরে তাকে ফিরিয়ে আনে পরিবার।

কিন্তু এবার সেই কিশোরী এমন কাণ্ড ঘটিয়েছে, তাতে হতবাক সবাই। কিশোরীর দাবি, ভালোবাসার প্রমাণ দিতে প্রেমিকের এইচআইভি আক্রান্ত রক্ত ইনজেকশনের মাধ্যমে নিজের শরীরে প্রবেশ করিয়েছে সে।

এ ঘটনায় মেয়েটির স্বাস্থ্য নিয়ে চিন্তিত চিকিৎসকরা। সে যে কাজ করেছে, তাতে প্রাণসংশয় পর্যন্ত হতে পারে বলে জানিয়েছেন তারা।

ঘটনা প্রকাশ্যে আসতেই গ্রেফতার করা হয়েছে সেই প্রেমিককে। স্বাস্থ্যপরীক্ষা করানো হয়েছে ওই কিশোরীর। তাকে বর্তমানে পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে।

সূত্র: আনন্দবাজার পত্রিকা, দ্য সেন্টিনেল আসাম


আরও খবর