Logo
আজঃ সোমবার ২৪ জুন 20২৪
শিরোনাম

ঘরোয়া পদ্ধতিতেই লোহার কড়াই পরিষ্কার

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২৬ জানুয়ারী ২০২৩ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ | ১২২৩জন দেখেছেন

Image

অনলাইন ডেস্ক : অ্যালুমিনিয়াম, ননস্টিক, কাচের বাসনের ভিড়ে অনেকের হেঁশেল খুঁজলে দু-একটা লোহার বাসন চোখে পড়বেই। লোহার বাসন ব্যবহার করা একটু ঝক্কির বলে অনেকেই এড়িয়ে চলেন। তবে অনেকের মতে, লোহার তৈরি কড়াইয়ে রান্না করলে শরীরের আয়রনের ঘাটতি পূরণ হয়। এ জন্য অনেক সময় চিকিৎসকরা লোহার বাসনে তৈরি খাবার খাওয়ার পরামর্শ দিয়ে থাকেন। স্টিল কিংবা অন্য ধাতুর বাসনের মতো লোহার বাসন অত পাতলা হয় না। তুলনায় ভারীও হয় অনেক বেশি। রান্না করতে গিয়ে হলুদ, মশলার দাগছোপ লাগলে তা পরিষ্কার করা সহজ নয়। পরিশ্রমের ভয়ে উপকারী জেনেও অনেকেই লোহার বাসন ব্যবহার করা থেকে দূরে থাকেন। লোহার বাসন পরিষ্কার করা যে মুখের কথা নয়, তা অনেকেই মানেন। তবে সমস্যা থাকলে সমাধানও থাকবে। ঘরোয়া কিছু পদ্ধতিতেই লোহার কড়াই পরিষ্কার রাখা সম্ভব।

ভিনিগার

পরিবেশবান্ধব একটি উপাদান হল ভিনিগার। এর পরিষ্কার করার ক্ষমতা অন্য অনেক উপকরণের চেয়ে বেশি। লোহার বাসনপত্র পরিষ্কার করার কাজে ব্যবহার করতে পারেন ভিনিগার। লোহার বাসনের পোড়া দাগের উপর কয়েক ফোঁটা ভিনিগার ঢেলে ভাল করে ঘষতে থাকুন। এতে দ্রুত দাগ চলে যাবে।

বেকিং সোডা

এক কাপ জলের মধ্যে এক টেবিল চামচ বেকিং সোডা মিশিয়ে নিন। এই মিশ্রণটি কড়াইয়ের দাগের উপর দিয়ে একটি ট্রুথ ব্রাশ দিয়ে ঘষে নিন। এতে দাগ বা জং সহজে দূর হবে। বাসনেরও কোনও ক্ষতি হবে না। বাসন হয়ে উঠবে চকচকে।

লেবুর রস

সমপরিমাণ লেবুর রস এবং বেকিং সোডা মেশান। মিশ্রণটি বাসনপত্রে মাখিয়ে নিন। কিছু ক্ষণ রাখুন। ১০-২০ মিনিট বাদে ভাল করে প্রত্যেকটি বাসন মেজে নিন। ধীরে ধীরে মাজতে মাজতে দেখবেন, বাসনের দাগ উঠে গিয়েছে।


আরও খবর

"নোবেলের ম্যাজিক শুধু প্রতারণা"

মঙ্গলবার ২০ ফেব্রুয়ারী ২০24




তানোরে গাছের ডালে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা

প্রকাশিত:সোমবার ১০ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ | ৭৮জন দেখেছেন

Image
আব্দুস সবুর তানোর থেকে:রাজশাহীর তানোরে গাছের ডালের সাথে  গলায় ফাঁস দিয়ে আপেল নামের (১৫) এক কিশোরের  ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে থানা পুলিশ। তার বাড়ি উপজেলার কলমা ইউনিয়ন ইউপির গঙ্গারামপুর গ্রামে। সে আতাউর রহমানের ছেলে। রবিবার বিকেলের দিকে মুন্ডুমালা পৌর এলাকার প্রকাশনগর খালের পার্শের গাছের ডালে গলায় ফাঁস দিয়ে ঘটে  আত্মহত্যার ঘটনা । 
 
এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে,নিহত কিশোর  আপেল দীর্ঘদিন ধরে মানুষিক ভারসাম্যহীন। রোববার দুপুরের পরে মুন্ডুমালা পৌরসভার প্রকাশনগর গ্রামের পানি নিষ্কাসনের খাড়ির ধারে লাগানো গাছের সাথে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্নহত্যা করেন। স্থানীয়রা আপেল কে গাছের ডালের সাথে  ঝুলন্ত অবস্থায় দেখতে পান। এসময় স্থানীয়রা থানা পুলিশ কে খবর দিলে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশ উদ্ধার করেন। 

এবিষয়ে  থানার অফিসার ইনচার্জ ওসি আব্দুর রহিম জানান,  খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠিয়ে লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। তদন্ত সাপেক্ষ আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

আরও খবর



১৫ আগস্টের পর থেকে ইতিহাস বিকৃতি শুরু হয়: প্রধানমন্ত্রী

প্রকাশিত:রবিবার ০২ জুন 2০২4 | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২০ জুন ২০24 | ১১৫জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্টের পর থেকে আমাদের ইতিহাস বিকৃতি শুরু হয় বলেছেন,প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। বঙ্গবন্ধুর নাম মুছে ফেলা হয়। সকলের নামে নানা ধরনের কুৎসা রটনা করে মানুষকে বিভ্রান্ত করার চেষ্টা করা হয়।

রোববার (২ জুন) সকাল ১০টায় গণভবনে ‘আমার চোখে বঙ্গবন্ধু’ শীর্ষক এক মিনিটব্যাপী ভিডিওচিত্র তৈরি প্রতিযোগিতায় জাতীয় পর্যায়ে নির্বাচিতদের সম্মাননাপত্র, ক্রেস্ট ও আর্থিক পুরস্কার প্রদান শেষে তিনি এসব কথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ৭ মার্চের ভাষণ নিষিদ্ধ হয়ে যায়। যে জয় বাংলা স্লোগান দিয়ে মুক্তিযুদ্ধের সময় এদেশের মানুষ বুকের রক্ত ঢেলে দিয়েছে, সেই জয় বাংলা স্লোগানটাও বাংলাদেশ থেকে মুছে ফেলা হয়।

শেখ হাসিনা বলেন, আমি জানি না পৃথিবীর আর কোন দেশে এভাবে একটা যুদ্ধ করে যারা এত আত্মহুতি দেয় তাদের এত অবমাননা করে। বাংলাদেশে এমন একটা সময় এসেছিল যখন, আমি মুক্তিযুদ্ধ করেছি এ কথাটা বলার সাহস ছিল না।


আরও খবর



রৌমারীতে স্মার্ট ভুমিসেবা সপ্তাহ উদ্বোধন

প্রকাশিত:রবিবার ০৯ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ | ৭৫জন দেখেছেন

Image

মাজহারুল ইসলাম,রৌমারী (কুড়িগ্রাম) প্রতিনিধি:স্মার্ট ভুমিসেবা, স্মাট নাগরিক প্রতিপাদ্যের উপর রৌমারীতে ভুমিসেবা সপ্তাহের শুভউদ্বোধন করা হয়েছে। ৮ জুন শনিবার সকাল ১১ টায় ফিতা কেটে অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করা হয়। 

রৌমারী উপজেলা ভুমি অফিস আয়োজিত উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, রৌমারী উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান শহিদুল ইসলাম শালু। উপজেলা ভুমি অফিস কার্যালয়ের সামনে, উপজেলা নির্বাহী অফিসার নাহিদ হাসান খানের সভাপতিত্বে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। 

উপজেলা একাডেমিক সুপারভাইজার মুক্তার হোসেনের সঞ্চলানায় সভায় উপজেলা কমিশনার ভুমি আশিফ উদ্দিন মিয়ার শুভেচ্ছা বক্তব্যের পর অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, অফিসার ইনচার্জ তদন্ত মোশাহেদ হোসেন, শৌলমারী ইউনিয়ন ভুমি কর্মকর্তা রুহুল্্যাহ, কৃষক মজনু মিয়া, প্রভাষক মোশারফ হোসেন, নির্বাচন অফিসার এমদাদুল হক, সাংবাদিক শওকত আলী মন্ডল, সাংবাদিক এসএম মমিন, উপজেলা ভাইচ চেয়ারম্যান সামসুল দোহা, মহিলা ভাইচ চেয়ারম্যান মাহমুদা আক্তার স্মৃতি। এ সময় স্কুলের শিক্ষার্থী, গণমাধ্যমকর্মী, ইউনিয়ন ভুমি কর্মকর্তা ও গণ্যমান্য ব্যাক্তিবর্গ। 

তবে স্মার্ট ভুমিসেবা উপজেলার কৃষকদের নিয়ে আলোচনা সভা করার কথা থাকলেও সভায় কৃষকদেরকে ডাকা হয়নি। কিভাবে স্মার্ট ভুমিসেবা ভুমি মালিকগণ পাবে এবং সমস্যা হবে না, সে জন্য ভুমি মালিকদের আলোচনার মাধ্যমে জানিয়ে দেয়ার প্রয়োজন বলে বক্তব্যের মাধ্যমে উঠে আসে।

উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান বলেন, আমাদের অঞ্চল দরিদ্র অঞ্চল। চরাঞ্চল ও নদী ভাঙ্গন এলাকা। এখানকার মানুষ খুব অসহায়। জানা গেছে, ভুমিসেবা পেতে হয়রানি হতে হয়। আমি ইউনিয়ন ভুমি কর্মকর্তাদেরকে অনুরোধ করে বলতে চাই। ভুমি মালিকরা যেন সেবা নিতে এসে হয়রানির শিকার না হয়। ভুমি মালিকরা যাতে হয়রানির শিকার না হয় সে সরকার বিভিন্ন সুযোগ সুবিধা করে দিয়েছেন। আপনারা শুধু তাদেরকে সুন্দর ভাবে বুঝিয়ে দিয়ে কাজ করে দিবেন।



আরও খবর



সৈয়দপুরে চালকের গলা কেটে হত্যাচেষ্টা, ইজিবাইক ছিনতাই

প্রকাশিত:বুধবার ০৫ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ | ১০৫জন দেখেছেন

Image
জহুরুল ইসলাম খোকন সৈয়দপুর (নীলফামারী) প্রতিনিধি:নীলফামারীর সৈয়দপুরে আশরাফুল আলম জার্মান(১৮) নামে এক যুবককে গলা কেটে ইজিবাইক ছিনতাই করার খবর পাওয়া গেছে । মঙ্গলবার ৪ জুন রাত আনুমানিক প্রায় সাড়ে ১১টায় উপজেলার বোতলাগাড়ী ইউনিয়নের চান্দিয়ার ব্রীজের নিকট দিনাজপুরের চিরিরবন্দর উপজেলার ফতেজংপুর ইউনিয়নের যত্রঘু এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। আশরাফুল সৈয়দপুর শহরের মিস্ত্রিপাড়া হায়দার আলীর ছেলে। বুধবার ৫ জুন সকালে ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন সৈয়দপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহা আলম। 

পুলিশ জানায়, সৈয়দপুর শহর থেকে যাত্রীবেশে ৪ ছিনতাইকারী আশরাফুলের ইজিবাইকে ওঠে। তারা শহরের বিভিন্ন স্থান ঘুরে দিনাজপুরের ফতেজংপুর যাওয়ার জন্য ওই পথে যান। এরপর উল্লেখিত স্থানে নিয়ে গিয়ে তারা আশরাফুলের গলাকেটে হত্যার চেষ্টা চালায় এবং ইজিবাইক ছিনিয়ে পালিয়ে যায় । স্থানীয়রা তাকে আহত অবস্থায় ওই যুবককে ভুট্টা ক্ষেত থেকে উদ্ধার করে পুলিশে খবর দেয়। পরে তারা আশরাফুলকে সৈয়দপুর ১০০ শয্যা হাসপাতালে নিয়ে যান। কিন্তু অবস্থার অবনতি হওয়ায় হাসপাতালের জরুরী বিভাগের চিকিৎসক রাত সাড়ে বারোটায় উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করেন। এদিকে ঘটনার পর পরই নীলফামারীর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সৈয়দপুর সার্কেল) কল্লোল কুমার দত্ত, সৈয়দপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শাহা আলম ও চিরিরবন্দর থানা পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। 

ওসি শাহা আলম বলেন, চিরিরবন্দর থানা পুলিশসহ আমরা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। চিরিরবিন্দর থানা পুলিশ আলামত সংগ্রহ করেছে। সৈয়দপুর ও চিরিরবন্দর থানা পুলিশ যৌথভাবে ঘটনাটি যৌথভাবে তদন্ত করছে।তদন্ত শেষ হলেই ব্যবস্হা নেয়া হবে বলে জানান তিনি। 

আরও খবর



কালিয়াকৈরে প্রকাশ্যে ছাত্রলীগ নেতাকে কুপিয়ে হত্যা,আহত-১

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০৬ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ | ১০৫জন দেখেছেন

Image

সাগর আহম্মেদ,কালিয়াকৈর (গাজীপুর) প্রতিনিধি:গাজীপুরের কালিয়াকৈরে সরকারী এক কলেজের এইচএসসি পরিক্ষার্থীদের বিদায় অনুষ্ঠানকে কেন্দ্র করে ছাত্রলীগের এক নেতাকে প্রকাশ্যে এলোপাথারি কুপিয়ে হত্যা করেছে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা। এসময় কুপিয়ে অপর এক ছাত্রলীগ নেতাকে গুরুতর জখম করা হয়। বৃহস্পতিবার সকালে উপজেলার চন্দ্রা ডাইনকিনি এলাকায় ওই কলেজের পাশে এ ঘটনা ঘটে। নিহত হলো, কালিয়াকৈর উপজেলার বরিয়াবহ এলাকায় মোতালেব হোসেনের ছেলে আল আমিন হোসেন (১৯)। সে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু সরকারী কলেজের ডিগ্রী ১ম বর্ষের ছাত্র ও ওই কলেজের দ্বাদশ শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি ছিল। অপর আহত হলো, ওই শাখা ছাত্রলীগের সদস্য কামরুল হাসান (১৯)। তাৎক্ষনিকভাবে তার ঠিকানা পাওয়া যায়নি।

এলাকাবাসী, সহকর্মী ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, গত বুধবার কালিয়াকৈর উপজেলার জাতির বঙ্গবন্ধু সরকারি কলেজের এইসএসসি পরিক্ষার্থীদের বিদায় অনুষ্ঠান ছিল। ওই বিদায় বেলার অনুষ্ঠানে সাউন সিস্টেমকে কেন্দ্র করে ওই সরকারী কলেজ শাখার সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক হাসান গ্রুপের সঙ্গে দ্বাদশ শ্রেনী শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি আল আমিন গ্রুপের সঙ্গে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে ছাত্রলীগের সিনিয়র নেতৃ বৃন্দ ও কলেজ কর্তৃপক্ষ মিলে ওই দু-গ্রুপের মধ্যে বিষয়টি মিমাংসার কথা বলে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনেন। ওই ঘটনায় বৃহস্পতিবার বিকেলে ওই সরকারি কলেজের ছাত্রলীগের দু- গ্রুপ নিয়ে বসার কথা ছিল। কিন্তু এর আগেই বেলা সাড়ে ১১টার দিকে উপজেলার চন্দ্রা ডাইনকিনি এলাকায় ওই কলেজের পাশে দ্বাদশ শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি আল আমিন ও কামরুলকে পেয়ে প্রকাশ্যে এলোপাথারী কুপিয়ে গুরুতর জখম করে। তাদের গ্রুপের সদস্যদের অভিযোগ, বিদায়ী অনুষ্ঠানের সংঘর্ষের ঘটনাকে কেন্দ্র করে কালিয়াকৈর ছাত্রলীগের সভাপতি ও ওই কলেজের ডিগ্রি তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী ইমন খান ও ওই কলেজ শাখার ছাত্রলীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক হাসানের নেতৃত্বে সাকিব, হৃদয়, আকাশ, কাউসার, আলামিনসহ বেশকিছু ছাত্রলীগের নেতাকর্মী দেশীয় অস্ত্র দিয়ে এলোপারী কুপিয়ে তাদের জখম করে।

পরে আহতদের ফেলে রেখে হামলাকারী ছাত্রীলীগের নেতাকর্মীরা একটি বাসে উঠে সাভারের দিকে চলে যায়। এসময় ডাকচিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুটে গিয়ে গুরুতর অবস্থায় তাদের উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক ওই ছাত্রলীগ নেতা আল আমিনকে মৃত ঘোষণা করেন। এছাড়াও গুরুতর আহত কামরুল হাসানকে উন্নত চিকিৎসক জন্য টাঙ্গাইলের মির্জাপুর কুমুদিনী হাসপাতালে নেওয়া হয়। খবর পেয়ে কালিয়াকৈর থানার ওসি এএফএম নাসিম ও তদন্ত ওসি তরিকুল ইসলাম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। এসময় পুলিশ হাসপাতাল থেকে নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য গাজীপুর শহীদ তাজউদ্দিন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠায়। তবে এ হত্যাকান্ডের ঘটনায় এখন পর্যন্ত কাউকে গ্রেপ্তার করতে পারেনি পুলিশ।

ওই সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর সুফিয়া বেগম জানান, শিক্ষার্থীদের আবেদনের প্রেক্ষিতে বিদায় অনুষ্ঠান করার অনুমতি দেওয়া হয়েছিল। কিন্তু কোন ধরণের র‌্যাগ-ডে পালনের অনুমতি দেওয়া হয়নি। সেই অনুষ্ঠানে কিছু অনাকাঙ্খিত ঘটনা ঘটেছে। ওই ঘটনার জেরে একটি পক্ষ হামলা চালিয়ে এক ছাত্রকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে। এছাড়াও অপর এক ছাত্রকে আহত করা হয়।

কালিয়াকৈর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এ এফ এম নাসিম ওই নিহতের লাশ উদ্ধারের বিষয়টি নিশ্চি করে জানান, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু সরকারী কলেজের এইএসসি পরিক্ষার্থীদের বিদায় অনুষ্ঠানে দুই গ্রুপের মধ্যে কথা কাটাকাটি ও হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। পরে তাদের সিনিয়র ও কলেজের শিক্ষকরা বিষয়টি মিমাংসা করার কথা ছিল। তবে তদন্ত শেষে হত্যাকান্ডের প্রকৃত কারণ উদঘাটন হবে। এছাড়াও এ ঘটনায় আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।


আরও খবর