Logo
আজঃ Tuesday ২৪ May ২০২২
শিরোনাম

ডেসটিনির রফিকুল আমিনের ১২ বছর সাবেক সেনাপ্রধান হারুনের চার বছরের সাজা

প্রকাশিত:Thursday ১২ May ২০২২ | হালনাগাদ:Tuesday ২৪ May ২০২২ | ৯৩জন দেখেছেন
Image

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

এমএলএম ব্যবসা প্রতিষ্ঠান ডেসটিনি মাল্টিপারপাস কো-অপারেটিভ সোসাইটির গ্রাহকের অর্থ আত্মসাৎ ও অর্থপাচারের মামলায় গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক রফিকুল আমীনের ১২ বছরের কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত।


একইসঙ্গে গ্রুপের চেয়ারম্যান সাবেক সেনাপ্রধান হারুন-অর-রশিদের ৪ বছর, পলাতক আসামি জসিম উদ্দিন ভূঁইয়ার ১০ বছর এবং মামলার বাকি ৪৩ আসামিকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে। 



বৃহস্পতিবার (১২ মে) ঢাকার চতুর্থ বিশেষ জজ আদালতের বিচারক শেখ নাজমুল আলম এ রায় ঘোষণা করেন।


এর আগে গত ২৭ মার্চ ঢাকার চতুর্থ বিশেষ জজ আদালতের বিচারক শেখ নাজমুল আলম রাষ্ট্র ও আসামিপক্ষের যুক্তি উপস্থাপন শেষে রায় ঘোষণার জন্য ১২ মে দিন ধার্য করেছিলেন।



মামলায় ডেসটিনির এমডি রফিকুল আমীনসহ মোট আসামি ৪৬ জন। তাদের মধ্যে জামিনে রয়েছেন লে. কর্নেল (অব.) মো. দিদারুল আলম, লে. জেনারেল (অব.) হারুন-অর-রশিদ, মিসেস জেসমিন আক্তার (মিলন), জিয়াউল হক মোল্লা ও সাইফুল ইসলাম রুবেল। কারাগারে আছেন এমডি রফিকুল আমীন ও প্রতিষ্ঠানটির চেয়ারম্যান মোহাম্মদ হোসেন। অন্য ৩৯ আসামি পলাতক।



অর্থ আত্মসাৎ ও অর্থপাচারের অভিযোগে দুদকের তৎকালীন উপ-পরিচালক মো. মোজাহার আলী সরদার ও সহকারী পরিচালক মো. তৌফিকুল ইসলাম ২০১২ সালের ৩১ জুলাই রাজধানীর কলাবাগান থানায় মানি লন্ডারিং আইনে পৃথক দুটি মামলা করেছিলেন।


২০১৪ সালের ৪ মে আদালতে অভিযোগপত্র (চার্জশিট) দাখিল করেন মোজাহার আলী সরদার। এতে ডেসটিনির গ্রাহকদের চার হাজার ১১৯ কোটি ২৪ লাখ টাকা আত্মসাৎ করে পাচারের অভিযোগ আনা হয়।


এর মধ্যে ডেসটিনি মাল্টিপারপাস কো-অপারেটিভ সোসাইটির মামলায় ৪৬ জন এবং ডেসটিনি ট্রি প্ল্যানটেশন লিমিটেডে দুর্নীতির মামলায় ১৯ জনকে আসামি করা হয়। দুই মামলায়ই আসামি হারুন-অর-রশিদ ও রফিকুল আমিন।


মামলার অভিযোগপত্রে বলা হয়, ২০০৮ সাল থেকে মাল্টিপারপাস কো-অপারেটিভ প্রজেক্টের নামে ডেসটিনি বিনিয়োগকারীদের কাছ থেকে সংগ্রহ করেছিল ১ হাজার ৯০১ কোটি টাকা। সেখান থেকে ১ হাজার ৮৬১ কোটি টাকা আত্মসাৎ করা হয় বলে দুদকের অনুসন্ধানে ধরা পড়ে। ওই অর্থ আত্মসাতের ফলে সাড়ে ৮ লাখ বিনিয়োগকারী ক্ষতির মুখে পড়েন।


ডেসটিনি ট্রি প্ল্যান্টেশন প্রজেক্টের মাধ্যমে বিনিয়োগকারীদের কাছ থেকে ২ হাজার ৪৪৫ কোটি টাকা সংগ্রহ করা হয়। এর মধ্যে ২ হাজার ২৫৭ কোটি ৭৮ লাখ ৭৭ হাজার টাকা আত্মসাৎ করা হয়। ফলে ক্ষতিগ্রস্ত হন সাড়ে ১৭ লাখ বিনিয়োগকারী।


অভিযোগপত্রে আরও বলা হয়, ডেসটিনি গ্রুপের নামে ২৮টি প্রতিষ্ঠানের মধ্যে বেশ কয়েকটি ছিল নামসর্বস্ব। আসামিরা প্রথমে প্রজেক্টের টাকা বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের হিসাবে জমা করতেন। এরপর বিভিন্ন ব্যাংকের হিসাবে তা স্থানান্তর করা হতো। দুদক ৩৪টি ব্যাংকে এমন ৭২২টি হিসাবের সন্ধান পায়, যেগুলো পরে জব্দ করা হয়।


আরও খবর



মাতুয়াইলে গ্যাসের বিস্ফোরণে মা-বাবার পর এবার চলে গেলো দুই বছরের মেয়ে ফাতেমা

প্রকাশিত:Tuesday ২৬ April ২০২২ | হালনাগাদ:Tuesday ২৪ May ২০২২ | ১২৭জন দেখেছেন
Image

নাজমুল হাসানঃ

রাজধানীর যাত্রাবাড়ী থানার কোনাপাড়া আড়াবাড়ি এলাকার একটি বাসায় গ্যাস লাইনের লিকেজ দিয়ে জমা গ্যাসের বিস্ফোরণে মা-বাবার পর এবার চলে গেলো দুই বছরের মেয়ে ফাতেমা আক্তার।


মঙ্গলবার (২৬ এপ্রিল) সকাল সাড়ে ৭টার দিকে শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।


এর আগে বুধবার (২০ এপ্রিল) দিনগত রাত সাড়ে ৩টার দিকে যাত্রাবাড়ী থানার কোনাপাড়া এলাকার একটি বাসায় গ্যাস লাইনের লিকেজ দিয়ে জমা গ্যাসের বিস্ফোরণে একই পরিবারের তিনজন দগ্ধ হয়েছে। দগ্ধ অবস্থায় তাদের উদ্ধার করে ভোর পাঁচটার দিকে শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে ভর্তি করা হয়।


 সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রোববার (২৪ এপ্রিল) দিনগত রাত ৪টার দিকে স্ত্রী মোছা. খাদিজা আক্তার (২৫) ও ৬টার দিকে স্বামী আব্দুল করিম (৩০) মারা যান।নিহত আব্দুল করিম মাতুয়াইল কোনাপাড়া আড়াবাড়ি এলাকায় মুদি দোকান দিয়ে ব্যাবসা করতেন।


গত বুধবার রাত সাড়ে ৩টার দিকে হঠাৎ গ্যাস বিস্ফোরিত হয়ে ৩ জন দগ্ধ হন। তাৎক্ষণিকভাবে তাদের উদ্ধার করে শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ইনস্টিটিউটে ভর্তি করা হয়।


শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন অ্যান্ড প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটের আবাসিক সার্জন ডা. এস এম আইয়ুব হোসেন জানান, যাত্রাবাড়ী কোনাপাড়া এলাকা থেকে বিস্ফোরণে দগ্ধ হয়ে বাবা-মায়ের পর শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ইনস্টিটিউটের নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) চিকিৎসাধীন অবস্থায় দুই বছরের শিশু ফাতেমা আক্তারও মারা গেছে। 


ফাতেমার শরীরের ৩৫ শতাংশ দগ্ধ ছিল।মরদেহ ঢামেক মর্গে রাখা হয়েছে। বিষয়টি সংশ্লিষ্ট থানাকে অবগত করা হয়েছে।


আরও খবর



বাংলাদেশ শ্রীলংকা টেস্টের পঞ্চম দিন

তাইজুলের জোড়া উইকেট শিকার স্বস্তি এনে দিয়েছে বাংলাদেশকে

প্রকাশিত:Thursday ১৯ May ২০২২ | হালনাগাদ:Tuesday ২৪ May ২০২২ | ৬৬জন দেখেছেন
Image

স্পোর্টস ডেস্কঃ

কুসল মেন্ডিসকে ফেরানোর পর অ্যাঞ্জেলো ম্যাথুসকেও সাজ ঘরের পথ দেখিয়েছেন তাইজুল ইসলাম। প্রথম ইনিংসে ১৯৯ রানের ইনিংস খেলা ম্যাথুসকে ০ রানেই ফিরিছেন এই বোলার।

তাইজুলের বলে কট অ্যান্ড বোল্ড হয়ে ফিরে যান মেন্ডিস। দিনের শুরুতে গুরুত্বপূর্ণ উইকেট শিকার করে দলকে স্বস্তি এনে দিয়েছেন তাইজুল।

এর আগে প্রথম ইনিংসে ৫৪ রানের ইনিংস খেলা মেন্ডিসকে ৪৮ রানে বোল্ড করেছেন তাইজুল। দ্বিতীয় ইনিংসে বল হাতে জ্বলে উঠেছেন বাংলাদেশের এই স্পিনার।

গতকাল চতুর্থ দিনে ৬৮ রানের লিড নিয়েছিল বাংলাদেশ। জবাবে ব্যাট করতে নেমে দিন শেষে দুই উইকেট হারিয়ে ৩৯ রান তুলেছিল শ্রীলঙ্কা


আরও খবর



শ্রীলঙ্কায় তুমুল বিক্ষোভের মধ্যে প্রধানমন্ত্রীর পদত্যাগ

প্রকাশিত:Monday ০৯ May ২০২২ | হালনাগাদ:Tuesday ২৪ May ২০২২ | ৭৫জন দেখেছেন
Image

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ

শ্রীলঙ্কায় তুমুল বিক্ষোভের মধ্যে পদত্যাগ করেছেন প্রধানমন্ত্রী মাহিন্দা রাজাপক্ষে।


সোমবার তিনি পদত্যাগ করেন বলে তার মুখপাত্র রোহান ওয়েলিউইটার বরাত দিয়ে জানিয়েছে দেশটির স্থানীয় গণমাধ্যম।


মাহিন্দা রাজা পাকসে সমর্থক ও সরকারবিরোধীদের মধ্যে সংঘর্ষের পর তিনি পদত্যাগ করেন। ওই সংঘর্ষে ৭৮ জন আহত হন।


এরপর দেশটিতে কারফিউ জারি করা হয়


৭৬বছর বয়সী মাহিন্দা তার পদত্যাগপত্র ছোট ভাই প্রেসিডেন্ট গোতাবায়া রাজাপক্ষের কাছে পাঠান।



গত শুক্রবার প্রেসিডেন্ট গোতাবায়া রাজাপক্ষে তার ভাইকে চলমান রাজনৈতিক সংকট সমাধানের জন্য পদ থেকে সরে দাঁড়ানোর কথা জানিয়েছিলেন।


গত এপ্রিল থেকে শ্রীলংকায় অর্থনৈতিক সংকট শুরু হয়।


বৈদেশিক ঋণে জর্জরিত দেশটি নিজেকে ‘অর্থনৈতিকভাবে দেউলিয়া’ ঘোষণা করে। এরপর থেকেই প্রধানমন্ত্রী রাজাপক্ষের পদত্যাগের দাবি জোরদার হয়।  


শ্রীলঙ্কায় অর্থনৈতিক সংকটের কারণে রাজনৈতিক অস্থিরতার মধ্য দিয়ে রাজা পাকসে পদত্যাগ করলেন।


আরও খবর



আমিরাতে আল হারামাইন পারফিউমসের উদ্যোগে বৃহৎ ইফতার মাহফিল

প্রকাশিত:Tuesday ২৬ April ২০২২ | হালনাগাদ:Tuesday ২৪ May ২০২২ | ১৬৪জন দেখেছেন
Image


মোঃশাজাহান খান, আরব আমিরাত থেকে 

সংযুক্ত আরব আমিরাতে বাংলাদেশের গর্বিত প্রতিষ্ঠান বিশ্ববিখ্যাত পারফিউমস কোম্পানি আল হারামাইন গ্রুপের উদ্যোগে ৫ হাজার প্রবাসীদের সম্মানে  ইফতার মাহফিল আয়োজন করা হয়। রবিবার ২৪ এপ্রিল আমিরাতের আজমানে অবস্থিত কোম্পানির প্রধান কার্যালয় এবং কারখানা প্রাঙ্গণে এ ইফতার মাহফিল আয়োজন করা হয়। 

এতে  দুবাইতে নিযুক্ত বাংলাদেশের কনসাল জেনারেল বিএম জামাল, বাংলাদেশে নিযুক্ত আমিরাতের রাস্ট্রদূত, আমিরাত সরকারের  উধ্বত্বন কর্মকর্তা ও ব্যবসায়ীসহ প্রবাসী বাংলাদেশী বিশিষ্ট ব্যক্তি ও তাদের পরিবারবর্গ, আমিরাতে অবস্হানরত প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিকস মিডিয়ার প্রতিনিধিবৃন্দসহ বিপুল সংখ্যক দেশী বিদেশী প্রবাসী উপস্থিত ছিলেন। 

অনুষ্ঠানে আল হারামাইনের কর্ণধার মাহাতাবুর রহমান নাসির সিআইপি ও আল হারাইমাইনের পরিচালক ডাঃ মুনীরা মাহতাব( মাহতাব কন্যা) উপস্থিত অতিথিদের স্বাগত, শুভেচ্ছা ও ধন্যবাদ জানিয়ে বক্তব্য রাখেন। এবং সকলের প্রতি অনুস্ঠানে উপস্থিত হওয়াতে ধন্যবাদ জানান। 


আরও খবর



গ্যাস নির্গমনের জন্য কোন বিকল্প ব্যবস্থা বা কোন পাইপ ছিল না

ডগাইড় নতুন পাড়ায় সেপটিক ট্যাঙ্কির গ্যাস বিস্ফোরণ আহত ১

প্রকাশিত:Monday ২৩ May ২০২২ | হালনাগাদ:Tuesday ২৪ May ২০২২ | ৫২জন দেখেছেন
Image

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ

ডগাইর নতুন পাড়া সাততলা মিনার মসজিদ সংলগ্ন ফজলুল হক চেয়ারম্যান বাড়ির ছয়তলা ভবন টির নিচতলা দক্ষিণ-পূর্ব কর্নারে সৃজন কনস্ট্রাকশন এর নিচে সেপটিক ট্যাঙ্কি বিস্ফোরণে বাবুল নামের একজন আহত হয়েছে। আহত বাবুল পাশের ভবনের নিচতলায় বিসমিল্লাহ ফার্নিচার এর কর্মচারী। 


বিস্ফোরণে সৃজন কনস্ট্রাকশনের মূল্যবান আসবাবপত্র ও প্রয়োজনীয় জরুরী কাগজপত্র ব্যাপকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়। সৃজন কনস্ট্রাকশনের ডেকোরেশন এর গ্লাস ভেঙ্গে বাবুলের পায়ে ঢুকে যায়। এতে তিনি আহত হন।


 ফায়ার সার্ভিস এন্ড সিভিল ডিফেন্স এর সারুলিয়া ডেমরা ইউনিট প্রধান ওসমান গনি জানান, সেপটিক ট্যাংকের গ্যাস নির্গমনের জন্য কোন বিকল্প ব্যবস্থা বা কোন পাইপ ছিল না বিধায় বিস্ফোরণটি ঘটে। পাশের বাড়ির গ্যাস লাইন লিকেজ থাকাতে এতে আগুন ধরে যায়, ফায়ার সার্ভিস আগুন নিয়ন্ত্রণে আনেন।


 সরেজমিনে তদন্ত করে দেখা যায় সেপটিক ট্যাঙ্কির কোথাও কোনো রকম গ্যাস বাহির হওয়ার জন্য কোন ব্যবস্থা ছিলনা। এতেই গ্যাসের অতিরিক্ত চাপে বিস্ফোরণটি ঘটে। তবে ভবনের নিচতলার শুধুমাত্র সৃজান কনস্ট্রাকশন ব্যতীত অন্য কোনো ক্ষয়ক্ষতি হয়নি ।



আরও খবর