Logo
আজঃ রবিবার ১৪ এপ্রিল ২০২৪
শিরোনাম

দেশের বর্তমান পরিস্থিতিতে সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব নয়: জি এম কাদের

প্রকাশিত:সোমবার ০৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৩ | হালনাগাদ:রবিবার ১৪ এপ্রিল ২০২৪ | ২৩৪জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক; দেশের বর্তমান পরিস্থিতিতে সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব নয় বলে জানিয়েছেন জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান ও বিরোধীদলীয় উপনেতা জি এম কাদের।

আজ সোমবার দুপুরে জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যানের কার্যালয়ে গণমাধ্যমকর্মীদের সঙ্গে আলোচনাকালে এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

জি এম কাদের বলেন, ‘বর্তমান পরিস্থিতিতে সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব হবে বলে মনে হয় না। নির্বাচনী পরিস্থিতি উন্নয়নে সরকারকেই উদ্যোগ নিতে হবে। সরকার চাইলে আমরা দলীয় ফোরামে আলোচনা করে জাতীয় পার্টির পক্ষ থেকে প্রস্তাবনা দেব।

অপর প্রশ্নের জবাবে জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান বলেন, ‘আমরা আদালতের ওপর শ্রদ্ধাশীল। আমরা আদালতের সকল নির্দেশনা মেনেই চলেছি।

তিনি আরও বলেন, ‘সংবিধানের কয়েকটি ধারার কারণেই বিচার বিভাগের পূর্ণ স্বাধীনতায় ঘাটতি আছে। ওই ধারার কারণে বিচার বিভাগ কিছুটা নিয়ন্ত্রণ করা সম্ভব।

তবে জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যানের ওপর থেকে নিষেধাজ্ঞা তুলে নেওয়ায় শুধু জাতীয় পার্টি নেতাকর্মীই নন, দেশের সাধারণ মানুষও খুশি হয়েছে। জি এম কাদের বলেন, ‘মামলার কারণে স্বাভাবিক রাজনীতিতে কিছুটা বাধা এসেছে। কিন্তু আমরা আদালতের সকল নির্দেশনা শ্রদ্ধার সাথে ইতিবাচকভাবেই নিচ্ছি।

জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যান বলেন, ‘বর্তমান সরকার দীর্ঘ সময় রাষ্ট্র ক্ষমতায় থেকে জানগণের আস্থা হারিয়েছে। আবার বিএনপিকেও দেশের সাধারণ মানুষ পছন্দ করে না। দেশের মানুষ আওয়ামী লীগ ও বিএনপির বাইরে একটি তৃতীয় শক্তি প্রত্যাশা করছে। জাতীয় পার্টি সেই তৃতীয় শক্তি হিসেবে নির্বাচনে আবির্ভূত হতে প্রস্তুতি নিচ্ছে। জাতীয় পার্টি ৩০০ আসনেই নির্বাচনের প্রস্তুতি নিচ্ছে।’

তিনি বলেন, ‘দেশ থেকে দুর্নীতি, দুঃশাসন, দলবাজী, টেন্ডারবাজী, চাঁদাবাজী, সন্ত্রাস ও নৈরাজ্য দূর করতেই আমরা রাজনীতি করছি। দেশের মানুষ মনে করছেন, আওয়ামী লীগ ও বিএনপির চেয়ে জাতীয় পার্টি দেশ পরিচালনায় অনেক বেশি সফলতা অর্জন করেছে। তাই দেশের মানুষ জাতীয় পার্টিকে বিকল্প শক্তি হিসেবে দেখতে চায়।

এর আগে গাজীপুর জেলা জাতীয় পার্টির নেতাদের সঙ্গে মতবিনিময় করেন জি এম কাদের। এ সময় উপস্থিত ছিলেন জাতীয় পার্টির মহাসচিব মো. মুজিবুল হক চুন্নু, প্রেসিডিয়াম সদস্য ফখরুল ইমাম, হাজী সাইফুদ্দিন আহমেদ মিলন, অ্যাডভোকেট মো. রেজাউল ইসলাম ভূঁইয়া, বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুস সাত্তার মিয়া, ভাইস চেয়ারম্যান শফিকুল ইসলাম মধু, মো. জসীম উদ্দিন ভূঁইয়া, সাংগঠনিক সম্পাদক আনোয়ার হোসেন তোতা, দপ্তর সম্পাদক-২ এমএ রাজ্জাক খান, কেন্দ্রীয় নেতা ফারুখ শেঠ, মখলেছুর রহমান বস্তু, গাজীপুর জেলা সাধারণ সম্পাদক কামরুজ্জামান মণ্ডল, জাতীয় পার্টি নেতা খলিলুর রহমান খলিল ও আবু সালেহ।


আরও খবর



স্বাধীনতা দিবসের অনুষ্ঠান বর্জন করল সৈয়দপুরের আ.লীগ

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২৬ মার্চ ২০২৪ | হালনাগাদ:শনিবার ১৩ এপ্রিল ২০২৪ | ৫৭জন দেখেছেন

Image
জহুরুল ইসলাম খোকন সৈয়দপুর (নীলফামারী) প্রতিনিধি:সৈয়দপুর উপজেলা প্রশাসন আয়োজিত মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবসের অনুষ্ঠান বর্জন করেছে স্থানীয় আওয়ামী লীগ ও এর অঙ্গ সহযোগী সংগঠন। সৈয়দপুর সরকারী কলেজের অধ্যক্ষের কক্ষে ছাত্রলীগের দেওয়া তালা ২৫ মার্চ খুলে দেওয়ার জের ধরে এ বর্জনের ঘটনা ঘটেছে।সৈয়দপুর উপজেলা আওয়ামী লীগ সূত্রে জানা যায়,  গত ৭ মার্চের অনুষ্ঠানে ‘জয় বাংলা, জয় বঙ্গবন্ধু’ স্লোগান না দেওয়ার অভিযোগ তুলে কিছুদিন ধরে সৈয়দপুর সরকারী কলেজের অধ্যক্ষের অপসারণে দাবিতে ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ সমাবেশ করছে ছাত্রলীগ। এরই ধারাবাহিকতায় গত রোববার অধ্যক্ষের অফিস কক্ষে তালা ঝুলিয়ে দেয় ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা। পরে গত সোমবার ওই শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান চত্বরে সৈয়দপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মুহাম্মদ ইসমাঈল অধ্যক্ষ, শিক্ষক, ছাত্রলীগ ও স্থানীয় সুধীজনদের সাথে আলোচনা করে অধ্যক্ষের তালা খুলে দেন। এতে ক্ষুব্ধ হয়ে স্থানীয় আওয়ামীলীগ ও এর অঙ্গ সহযোগী সংগঠনের নেতা-কর্মীরা উপজেলা প্রশাসন আয়োজিত স্বাধীনতা দিবসের অনুষ্ঠানে যোগ দেননি। 

সৈয়দপুর উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক মহসিনুল হক মহসিন বলেন, সৈয়দপুর সরকারী কলেজের অধ্যক্ষ আতিয়ার রহমান একজন জামাত-শিবিরপন্থী। ১৯৭১ সালের ২৫ মার্চ পাকিস্থান হানাদারবাহিনী  এ দেশের নিরীহ বাঙ্গালীর ওপরে হামলা করে গণহত্যা চালায়। আর গণহত্যা দিবসে  সৈয়দপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা অধক্ষের তালা ভেঙ্গে জামাত-শিবিরকে আশ্রয় দিয়েছে। আমরা মনে করি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাও স্বাধীনতাবিরোধী ও জামাত-শিবিরপন্থী। তাই আমরা উপজেলা প্রশাসন আয়োজিত স্বাধীনতা দিবসের অনুষ্ঠান বর্জন করেছি।
এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মুহাম্মদ ইসমাঈল বলেন, সরকারি প্রতিষ্ঠানে এভাবে তালা দেওয়া সমীচীন নয়। আমি সবার সাথে কথা বলেছি।বিষয়টা বুঝেছে ছাত্রলীগ। ফলে তারা নিজেরাই  অধ্যক্ষের কক্ষের তালা খুলে দিয়েছে। অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে যদি নির্দিষ্ট কোন অভিযোগ থাকে তাহলে অবশ্যই তা মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর ( মাউসির) কাছে লিখিত জানাতে হবে। কারো বিরুদ্ধে ভিত্তিহীন অভিযোগ দিয়ে হয়রানি করা ঠিক না।স্বাধীনতা দিবসের অনুষ্ঠান কে বর্জন করেছে তা আমার জানা নেই। 

আরও খবর

স্বাগত ১৪৩১, আজ পহেলা বৈশাখ

রবিবার ১৪ এপ্রিল ২০২৪




ভারত থেকে আজ রাতেই পেঁয়াজ আসবে: বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী

প্রকাশিত:রবিবার ৩১ মার্চ ২০২৪ | হালনাগাদ:শনিবার ১৩ এপ্রিল ২০২৪ | ৭২জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:ভারত থেকে আজ রাতেই ১ হাজার ৬৫০ টন পেঁয়াজ আসবে,বলেছেন বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী আহসানুল ইসলাম টিটু।

রোববার (৩১ মার্চ) সচিবালয়ে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে ‘দ্রব্যমূল্য ও বাজার পরিস্থিতি পর্যালোচনা’ বিষয়ক টাস্কফোর্স সভা শেষে তিনি এসব কথা বলেন।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, যেহেতু পেঁয়াজ পচনশীল পণ্য সেহেতু প্রথম ট্রেনে ১ হাজার ৬৫০ মেট্রিক টন পেঁয়াজ আসবে। একদিনের মধ্যেই ঢাকা এবং চট্টগ্রামে টিসিবির মাধ্যমে ৪০ টাকা কেজিতে ওপেন সেল করা হবে।


আরও খবর



নবীনগরে অবৈধ ড্রেজার দিয়ে বালু উত্তোলনের ফলে ভাঙনের কবলে ৪ টি গ্ৰাম

প্রকাশিত:শনিবার ১৬ মার্চ ২০২৪ | হালনাগাদ:রবিবার ১৪ এপ্রিল ২০২৪ | ১৪২জন দেখেছেন

Image

মোহাম্মদ হেদায়েতুল্লাহ  নবীনগর(ব্রাহ্মণবাড়িয়া)প্রতিনিধিঃ-

মেঘনা নদীর ভাঙনে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগর উপজেলার বড়িকান্দি ইউনিয়নের চারটি গ্রাম হুমকি মুখে। গত কয়েক দশকে এ ভাঙনে ধরাভাঙ্গা, মুক্তারামপুর, নূরজাহানপুর, সোনাবালুয়া গ্রামের বহু কৃষিজমি, ঘরবাড়ি ও অসংখ্য গাছপালা নদীগর্ভে বিলীন হয়েছে। মেঘনার এই ভয়াবহ ভাঙ্গন রোধে প্রশাসনের প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে বিভিন্ন সময় আন্দোলন করে আসছেন ভুক্তভোগীরা। কিন্তু তাতেও কোন কাজে আসেনি।


জানা গেছে, নবীনগর উপজেলার মেঘনা তীরবর্তী নবীনগর পশ্চিম বড়িকান্দি ইউনিয়নের প্রায় ৪ টি গ্রামে ২৫ থেকে ৩০ হাজার বাসিন্দা বছরের পর বছর ধরে এ ভাঙনের ঝুঁকি নিয়ে বাস করছেন।এলাকাবাসীর অভিযোগ কিছু আগে ডিসি অফিস থেকে ইজারা দেওয়া হয়েছে বালু মহলের,নিজেরা পেয়েছে মুন্স এন্টারপ্রাইজ মালিকানাধীন শাহাদাত হোসেন শোভন  ইজারাদার কোন নিয়ননীতি ওয়াক্কা না করে দিনরাত অবিরাম চুম্বক ডেজার দিয়ে বালু উত্তোলন করে যাচ্ছে।


৬০ টির বেশির ডেজার মিশন দিয়ে বালু তোলার ফলে আশেপাশে কৃষি জমি এবং মানুষের বসতিটা নদীর গর্ভে বিলীন হয়ে যাচ্ছে। পানি উন্নয়ন বোর্ড তৈরি ৭২ কোটি টাকার বেরিবাদ এক অংশ নদীর গর্ভে বিলীন হয়ে গেছে। নিয়ম হল ১০ টি ডেজার ব্যবহার করবে।  প্রশাসনের কাছে বারবার অভিযোগ দিও কোন কাজ হচ্ছে না। এমন অবস্থায় আশপাশে গ্রামগুলো মানুষগুলো অসহায় পড়েছে মুক্তারামপুর নুরজাহানপুর সোনা বালুয়া ধরাভাঙ্গা গ্রাম গুলোর মানুষ।

-খবর প্রতিদিন/ সি.ব


আরও খবর

স্বাগত ১৪৩১, আজ পহেলা বৈশাখ

রবিবার ১৪ এপ্রিল ২০২৪




বাংলাদেশ কমার্সিয়াল আর্টিস্ট অ্যাসোসিয়েশন এর দোয়া ও ইফতার মাহফিল

প্রকাশিত:শনিবার ৩০ মার্চ ২০২৪ | হালনাগাদ:রবিবার ১৪ এপ্রিল ২০২৪ | ১১১জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদকঃবাংলাদেশ কমার্শিয়াল আর্টিস্ট এসোসিয়েশন (বিসিএ)র ইফতার মাহফিল-২০২৪ অনুষ্ঠিত হয়েছে। শুক্রবার ২৯ মার্চ রাজধানীর মতিঝিলের কিচেন ইয়ার্ড নামে একটি রেস্টুরেন্টে এই কর্মসূচি পালিত হয়। এতে সভাপতিত্ব করেন বাংলাদেশ কমার্শিয়াল আর্টিস্ট অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি মিজানুর রহমান।

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সংগঠনের সিনিয়র সহ সভাপতি কামাল হোসেন খান, সাধারণ সম্পাদক আহমদ উল্লাহ মতিন। দোয়া ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন, সংগঠনের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মিরাজ হোসেন ও তথ্য ও গণসংযোগ সম্পাদক মনির হোসেন। দোয়া ইফতার মাহফিলে বিশেষ মোনাজাত পরিচালনা করা হয়। মোনাজাত পরিচালনা করেন সংগঠনের সভাপতি মিজানুর রহমান। বিশেষ মোনাজাতে দেশ ও মুসলিম উম্মাহ সহ ফিলিস্তিনের মুসলমানদের জন্য দোয়া করা হয়। এ সময় সংগঠনটির বিভিন্ন থানা কমিটির নেতৃবৃন্দ ও সাধারণ সদস্যগণ উপস্থিত ছিলেন।


আরও খবর



ওসির পর সাংবাদিকের বাসায় চোরের হানা; ঈদের আগে চুরি/ছিনতাই ও ডাকাতির আতঙ্কে রূপগঞ্জবাসী

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০৪ এপ্রিল ২০২৪ | হালনাগাদ:শনিবার ১৩ এপ্রিল ২০২৪ | ১০০জন দেখেছেন

Image

আবু কাওছার মিঠু রুপগঞ্জ নারায়নগঞ্জ প্রতিনিধিঃনারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে পবিত্র ঈদুল ফিতরকে সামনে রেখে বিভিন্ন এলাকায় ঘটছে চুরি ছিনতাই ও ডাকাতির ঘটনা এতে আতঙ্কিত রূপগঞ্জবাসী।রূপগঞ্জের জাঙ্গীর গ্রামের বাসিন্দা শিল্প পুলিশের পরিদর্শক (ওসি) নাজমুল ইসলামের বাড়িতে চুরির পর এবার পাশের গ্রাম  গুতিয়াবোতে দৈনিক যুগান্তর ও আনন্দ টিভির সাংবাদিক রাসেল মাহমুদের বাসায় লোহার গ্রিলকেটে চুরির ঘটনা ঘটেছে। ৩ এপ্রিল দিবাপূর্ব মধ্যরাতে এ চুরির ঘটনা ঘটে।

এর আগে রমজান মাসের শুরু থেকে উপজেলার বিভিন্ন গ্রামে ও মহা সড়কের স্থানে স্থানে চুরি ও ডাকাতির ঘটনা ঘটায় এলাকাবাসী চরম আতঙ্কে রয়েছেন।আনন্দ টিভির রূপগঞ্জ প্রতিনিধি  ও দৈনিক যুগান্তরের সাংবাদিক রাসেল মাহমুদ জানান, তার গ্রামের বাড়ি গুতিয়াবোতে সাধারণত রাতে কেউ থাকে না। তবে সপ্তাহে ৩ দিন থাকা হয়। এ সুযোগে অজ্ঞাত অপরাধী চক্রের সদস্যরা গতরাতে বারান্দার গ্রিল কেটে ঘরে প্রবেশ করে সবগুলোর আলমারির তালা ভেঙ্গে ফেলে। এ সময় ঘরে থাকা দুটি পুরাতন মোবাইল ফোন, ৫ ভরি স্বর্ণালংকার, হিরের নাকফুলসহ নগদ টাকা চুরি করে নিয়ে যায়।

এ ঘটনায় রূপগঞ্জ থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।সাংবাদিকের বাড়িতে চুরির  খবর পেয়ে রূপগঞ্জ থানা পুলিশের এসআই পরেশ বাগচী, মারুফ হাসান অরন্য ও এএসআই রাশেদ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। এ বিষয়ে রূপগঞ্জ থানার অধীনে পূর্বাচল ক্যাম্প ইনচার্জ পরেশ বাগচী বলেন, অভিযোগ পেয়েছি। ঘটনার তদন্ত চলমান। জড়িতদের সনাক্ত করে আইনের আওতায় আনতে কাজ করছি। স্থানীয়দের দেয়া তথ্যে জানা যায়, রমজান মাস শুরুর পর থেকে রূপগঞ্জে বেড়েছে চুরির ঘটনা।দিনে দুপুরে ঘরে প্রবেশ করে নিয়ে যাচ্ছে বাই সাইকেল, আইপিএস, মোটরসাইকেল।

আর নির্জন প্লটের সীমানা প্রাচীর ভেঙ্গে ফটক, বাড়ির লোকজন না থাকলে দরজা, জানালা খুলে নেয়ার অভিযোগসহ সিসিটিভি ফুটেজ ঘুরছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। তবে ভুক্তভোগীদের অনেকেই  অভিযোগ না করায় পুলিশের কিছুই করার না থাকলেও সিসিটিভি ক্যামেরা স্থাপনের অনুরোধ করেছেন রূপগঞ্জ থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি দীপক চন্দ্র সাহা। এসব বিষয়ে জানতে চাইলে রূপগঞ্জ থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি দীপক চন্দ্র সাহা বলেন, রূপগঞ্জ থানায় আইন শৃঙ্খলা নিয়ন্ত্রণে পুলিশের নিয়মিত টহল অব্যাহত আছে।

যেকোন অনিয়মের অভিযোগ পেলে আমরা ব্যবস্থা নিয়ে থাকি। চুরির ঘটনা বিষয়ে জানলাম। তবে অনেকেই অভিযোগ করেন না। ফলে আমরা জানতে পারিনা। গত ১ মাসে চুরি, ছিনতাইসহ নানা অপরাধে জড়িতদের আইনের আওতায় নেয়া হয়েছে। মামলা হয়েছে। আসামী আদালতে প্রেরণ করেছি। তবে জনসাধারণকে অনুরোধ করবো, সড়কে পাশে বা যার যার বাসায় সিসিটিভি ক্যামেরা স্থাপন যেন করেন। এতে আমাদের আইনি ব্যবস্থা নেয়া সহজ হয়। চোরকে সনাক্ত করা যায়। সরকারের পরিকল্পনা স্মার্টসেবা দানে আমরা তৎপর। 

-খবর প্রতিদিন/ সি.ব


আরও খবর

স্বাগত ১৪৩১, আজ পহেলা বৈশাখ

রবিবার ১৪ এপ্রিল ২০২৪