Logo
আজঃ শনিবার ১৮ মে ২০২৪
শিরোনাম

বিদ্যুৎ-গ্যাসের দাম কেন বেড়েছে, জানালেন প্রধানমন্ত্রী

প্রকাশিত:বুধবার ০৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৩ | হালনাগাদ:শনিবার ১৮ মে ২০২৪ | ৩২৫জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক; প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জানিয়েছেন, আন্তর্জাতিক বাজারে গ্যাস ও জ্বালানি তেলের দাম বেড়ে যাওয়ার কারণে ভর্তুকি কমিয়ে আনতে বিদ্যুতের দাম বাড়ানো হয়েছে। আর বিশ্ববাজারে তরলীকৃত প্রাকৃতিক গ্যাসের (এলএনজি) আমদানি মূল্য অস্বাভাবিক পরিমাণে বেড়ে যাওয়ায় গ্যাসের দাম বাড়ানো হয়েছে।

আজ বুধবার জাতীয় সংসদে জাতীয় পার্টির সংসদ সদস্য ফখরুল ইমামের এক প্রশ্নের লিখিত উত্তরে এ কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী। স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে সংসদ অধিবেশন শুরু হয়।

সংসদে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, ‘বিদ্যুৎ ও গ্যাস দৈনন্দিন জীবনে একান্ত অপরিহার্য দুটি উপাদান। ব্যবসা-বাণিজ্য, শিল্প-কারখানা, কৃষি, পর্যটন সব কিছুই বিদ্যুৎ ও গ্যাসের ওপর নির্ভরশীল। সার্বিকভাবে দেশকে সচল রাখতে বিদ্যুৎ ও গ্যাসের প্রয়োজনীয়তা অনস্বীকার্য।


প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘আওয়ামী লীগ সরকার ২০০৯ সালে ক্ষমতা নেওয়ার পর বিদ্যুৎ ও গ্যাস খাতের উন্নয়নে নানা পরিকল্পনা নেওয়ার পাশাপাশি বাস্তবায়ন করেছে। ফলে বিগত ১৪ বছরে বিদ্যুৎ উৎপাদন ক্ষমতা পাঁচগুণেরও বেশি বেড়েছে এবং প্রতিশ্রুতি অনুযায়ী শতভাগ জনগোষ্ঠীকে বিদ্যুৎ সুবিধার আওতায় আনা সম্ভব হয়েছে।

শেখ হাসিনা বলেন, ‘মাথাপিছু বিদ্যুৎ উৎপাদনের পরিমাণ ২২০ কিলোওয়াট-ঘণ্টা থেকে বেড়ে ৬০৯ কিলোওয়াট-ঘণ্টায় উন্নীত হয়েছে। গ্যাসের উৎপাদনও ব্যাপকভাবে বেড়েছে। ২০০৮ সালে দৈনিক গ্যাস উৎপাদন ক্ষমতা ছিল ১ হাজার ৭৪৪ মিলিয়ন ঘনফুট। ২০১৮ সালে দৈনিক গ্যাস উৎপাদন ক্ষমতা দাঁড়ায় ২ হাজার ৭৫০ মিলিয়ন ঘনফুটে। বর্তমানে দৈনিক গ্যাস উৎপাদন ক্ষমতা ২ হাজার ৩০০ মিলিয়ন ঘনফুট।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, ‘আমদানিকৃত তরল গ্যাসের ব্যবহার, আন্তর্জাতিক বাজারে গ্যাস ও জ্বালানি তেলের দাম বেড়ে যাওয়া, নিরবচ্ছিন্ন ও মানসম্মত বিদ্যুৎ সুবিধা দেওয়ার লক্ষ্যে বিদ্যুৎ উৎপাদন, সঞ্চালন ও বিতরণ ব্যবস্থার উন্নয়নে বিনিয়োগ, উৎপাদন ব্যয় ও বিক্রয় দামের মধ্যে সমন্বয়, বৈদেশিক মুদ্রার বিপরীতে টাকার মূল্যমানের সমন্বয়ের কারণে বিদ্যুতের পাইকারি ও খুচরা পর্যায়ে দাম বাড়ানো হয়ে থাকে।

শেখ হাসিনা বলেন, ‘২০১১-১২ অর্থবছরে বিদ্যুতে ভর্তুকির পরিমাণ ছিল প্রায় ৩০ হাজার কোটি টাকা। দেশের সার্বিক অর্থনৈতিক অবস্থা বিবেচনায় পর্যায়ক্রমে বিদ্যুৎ খাতে ভর্তুকি কমিয়ে আনার লক্ষ্যে সরকার কাজ করছে।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের প্রেক্ষাপটে বিশ্বব্যাপী সব জ্বালানির দামে অস্থিতিশীলতা বিরাজ করছে। জ্বালানি সংশ্লিষ্ট ব্যয় যেমন বিমা খরচ, ঝুঁকি ব্যয়, ব্যাংক সুদ, মার্কিন ডলারের বিপরীতে টাকার মূল্যমান সমন্বয় করায় সামগ্রিকভাবে জ্বালানি খাতে ব্যয় ব্যাপকভাবে বেড়েছে। এরই ধারাবাহিকতায় বিশ্ববাজারে তরলীকৃত প্রাকৃতিক গ্যাসের (এলএনজি) আমদানি দামও অস্বাভাবিক পরিমাণে বেড়ে যাওয়ায় এ খাতে সরকারকে বিপুল পরিমাণ অর্থ ভর্তুকি বাবদ দিতে হচ্ছিল।

তিনি বলেন, ‘চলমান কৃষি সেচ মৌসুম, আসন্ন রমজান ও গ্রীষ্মে বিদ্যুৎ উৎপাদনে গ্যাসের বর্ধিত চাহিদা মেটানো, শিল্পখাতে উৎপাদন নিরবচ্ছিন্ন রাখা এবং রপ্তানিমুখী বিভিন্ন কলকারখানার নিজস্ব ব্যবস্থাপনায় উৎপাদিত ক্যাপটিভ বিদ্যুৎ উৎপাদন অব্যাহত রাখার উদ্দেশ্যে স্পট মার্কেট থেকে উচ্চমূল্যে এলএনজি আমদানিপূর্বক বর্ধিত চাহিদা পূরণ করতে হবে। এই কারণে সরকার অন্যান্য ভোক্তা শ্রেণিকে অপরিবর্তিত রেখে শুধুমাত্র বিদ্যুৎ, শিল্প, ক্যাপটিভ বিদ্যুতে ও বাণিজ্যিক খাতে ব্যবহৃত গ্যাসের দাম বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এসব খাতে গ্যাসের চাহিদা মেটানোর জন্য স্পট মার্কেট থেকে এলএনজি আমদানির প্রক্রিয়া ইতোমধ্যে নেওয়া হয়েছে।’


আরও খবর



ঢাকা দূষিত শহরের তালিকায় ৩ নম্বরে

প্রকাশিত:শনিবার ২৭ এপ্রিল ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ১৭ মে ২০২৪ | ১১৩জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:রাজধানী ঢাকার বায়ুদূষণ দেশে চলমান তীব্র দাবদাহের মধ্যে বেড়েছে। বিশ্বের  সঙ্গে পাল্লা দিয়ে দেশের বায়ুদূষণ বাড়লেও মাঝে মধ্যে বৃষ্টি হলে শহরটির বাতাসের মানের কিছুটা উন্নতি হয়। তবে বেশ কিছুদিন যাবত বৃষ্টি না হওয়ায় ঢাকার বাতাসের মান আবারও ভয়াবহ দূষণের দিকে যাচ্ছে। সেইসঙ্গে বাড়ছে স্বাস্থ্যঝুঁকিও।

শনিবার (২৭ এপ্রিল) সকাল সাড়ে ৯টার দিকে আন্তর্জাতিক বায়ুমান প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান আইকিউএয়ারের মানদণ্ড অনুযায়ী, ১৬১ স্কোর নিয়ে বিশ্বের দূষিত শহরের তালিকায় ৩ নম্বরে উঠে এসেছে ঢাকা। আজ ঢাকার বাতাস জনস্বাস্থ্যের জন্য ‘অস্বাস্থ্যকর’ হিসেবে বিবেচিত হচ্ছে।

এদিকে আইকিউএয়ারের মানদণ্ড অনুযায়ী, বিশ্বের দূষিত শহরের তালিকায় ১৯০ স্কোর নিয়ে শীর্ষে রয়েছে নেপালের কাঠমান্ডু; ১৬৩ স্কোর নিয়ে দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে ভিয়েতনামের হ্যানয়, ১৬৪ স্কোর নিয়ে চতুর্থ স্থানে আছে থাইল্যান্ডের চিয়াং মাই শহর। এছাড়া ১৫৫ স্কোর নিয়ে পঞ্চম স্থানে আছে চীনের বেইজিং।

একিউআই স্কোর ১৫১ থেকে ২০০ হলে তাকে ‘অস্বাস্থ্যকর’ বায়ু বলে মনে করা হয়। একিউআই স্কোর শূন্য থেকে ৫০ ভালো হিসেবে বিবেচিত হয়। ৫১ থেকে ১০০ মাঝারি হিসেবে গণ্য করা হয়; আর সংবেদনশীল গোষ্ঠীর জন্য অস্বাস্থ্যকর বিবেচিত হয় ১০১ থেকে ১৫০ স্কোর। স্কোর ১৫১ থেকে ২০০ হলে তাকে ‘অস্বাস্থ্যকর’ বায়ু বলে মনে করা হয়।

২০১ থেকে ৩০০-এর মধ্যে থাকা একিউআই স্কোরকে ‘খুব অস্বাস্থ্যকর’ বলা হয়। এ অবস্থায় শিশু, প্রবীণ এবং অসুস্থ রোগীদের বাড়ির ভেতরে এবং অন্যদের বাড়ির বাইরের কার্যক্রম সীমাবদ্ধ রাখার পরামর্শ দেওয়া হয়ে থাকে।

এছাড়া ৩০১ থেকে ৪০০-এর মধ্যে থাকা একিউআই ‘ঝুঁকিপূর্ণ’ বলে বিবেচিত হয়, যা নগরের বাসিন্দাদের জন্য গুরুতর স্বাস্থ্যঝুঁকি তৈরি করে।


আরও খবর



কুষ্টিয়ায় ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে হামলা লুটপাট ও মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার দাবিতে মানববন্ধন

প্রকাশিত:রবিবার ২১ এপ্রিল ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৬ মে ২০২৪ | ৮২জন দেখেছেন

Image
কুষ্টিয়া জেলা প্রতিনিধি:কুষ্টিয়ায় মুক্তিযোদ্ধার সন্তানের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে হামলা লুটপাট, হামলাকারীদের দ্রুত গ্রেপ্তার, অপরাধী এবং আসামীদের পাল্টা মিথ্যা মামলা থেকে বীর মুক্তিযোদ্ধা পরিবারকে অব্যাহতি প্রদানের দাবীতে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে। শনিবার (২০এপ্রিল) বেলা ৩ টার সময় কুষ্টিয়া সদর মডেল থানার সামনে কুষ্টিয়া জেলা মুক্তিযোদ্ধার সন্তান ও প্রজন্মের ব্যানারে এ মানববন্ধন অনুস্ঠিত হয়। এতে বক্তব্য রাখেন, কুষ্টিয়া জেলা মুক্তিযোদ্ধার সন্তান ও প্রজন্মের সভাপতি হাবিবুর রহমান, সহসভাপতি আল আসাদ রেমন, সাধারন সম্পাদক শেখ শুভিন আক্তার, যুগ্ন সাধারন সম্পাদক খন্দকার মাহাবুব হোসেন মিলন, সাংগাঠনিক সম্পাদক এসএম তৌফিকুল কবির তুহিন, অর্থ সম্পাদক তৌফিক আহম্মেদ শাওন , প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক মোছাঃ ফাতেমা খাতুন, সদস্য হাবিবা, নীম, নজরুল ও আরিফ প্রমুখ। এ সময় সংগঠনটির অন্যান্য নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। মানববন্ধনে নেতৃবৃন্দ বলেন, কুষ্টিয়া জেলা মুক্তিযোদ্ধার সন্তান ও প্রজন্ম কুষ্টিয়া জেলা শাখার  প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক কুষ্টিয়া সদরের বটতৈল আনসার ক্যাম্প মোড় এলাকার বীর মুক্তিযোদ্ধা মৃত আব্দুর রহমানের (পুলিশ) মেয়ে মোছাঃ ফাতেমা খাতুনের বাড়ীর সামনে তার মেসার্স ফাহিম ট্রেডার্স নামক ব্যবসা প্রতিষ্ঠান দোকানে গত ৮ এপ্রিল বেলা সাড়ে এগারটার সময় হামলা চালিয়ে লুটপাট করে এলাকার চিহ্নিত কিছু সন্ত্রাসী ও মাদক কারবারী। এদিন থানায় অভিযোগ দিলেও তা নিতে বিলম্ব করেন কুষ্টিয়া সদর মডেল থানা পুলিশ। মামলা নং-১৮ , তাং-১১/০৪/২০২৪ইং । এরই মধ্যে উল্টো হামলাকারীদের অভিযোগ এজাহার নিয়ে পুলিশ তার হীন মানুষিকতার পরিচয় দেন । নেতৃবৃন্দ এই ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানান। সেই সাথে লুটপাট ও হামলাকারীদের দ্রুত গ্রেপ্তার এবং অপরাধী ও আসামীদের পাল্টা মিথ্যা মামলা থেকে বীর মুক্তিযোদ্ধা পরিবারকে অব্যাহতি প্রদানে পুলিশের প্রতি আহবান জানান। নতুবা আগামীতে জেলা প্রশাসক এবং পুলিশ সুপারের বরাবর স্মারকলিপি প্রদানসহ আরো বড় ধরনের কর্মসূচি গ্রহন করা হবে বলে হুশিয়ারি দেন।

আরও খবর



মাগুরা গন কমাটির উদ্যোগে জীবন সংগ্রামী ওহিদুল হক মিয়ার স্মরণসভা অনুষ্ঠিত

প্রকাশিত:শনিবার ২০ এপ্রিল ২০24 | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৬ মে ২০২৪ | ৯৯জন দেখেছেন

Image
স্টাফ রিপোর্টার মাগুরা থেকে:মাগুরার বিশিষ্ট সমাজকর্মী, প্রগতিশীল ব্যক্তিত্ব, তেল-গ্যাস-খনিজ সম্পদ ও বিদ্যুৎ বন্দর রক্ষা জাতীয় কমিটি মাগুরা জেলার আহ্বায়ক, আজীবন সংগ্রামী ওহিদুল হক মিয়া গত ১৪ মার্চ ২০২৪ মৃত্যুবরণ করেন।  ২০ এপ্রিল ২০২৪ শনিবার সকাল ১১টায় সৈয়দ আতর আলী পাবলিক লাইব্রেরি মিলনায়তনে গণকমিটি মাগুরা জেলার উদ্যোগে ওহিদুল হক মিয়া স্মরণসভা অনুষ্ঠিত হয়। গণকমিটি মাগুরা জেলার আহ্বায়ক ও বাংলাদেশ জাসদের মাগুরা জেলা শাখার সভাপতি এটিএম মহব্বত আলীর সভাপতিত্বে এবং গণকমিটি মাগুরা জেলার সদস্য সচিব ও বাংলাদেশের সমাজতান্ত্রিক দল-বাসদ মাগুরা জেলা শাখার আহ্বায়ক প্রকৌশলী শম্পা বসুর পরিচালনায় স্মরণ সভায় আলোচনা করেন ওহিদুল হকের স্ত্রী নুরুন্নাহার,বাম গণতান্ত্রিক জোট মাগুরা জেলার সমন্বয়ক এবং বাংলাদেশের বিপ্লবী কমিউনিস্ট লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য শিক্ষাবিদ কাজী নজরুল ইসলাম ফিরোজ, বিশিষ্ট সমাজ সেবক কামরুজ্জামান চপল, বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি মাগুরা জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক এটিএম আনিসুর রহমান, মাগুরা রেডিয়েন্ট স্কুলের পরিচালক, বিশিষ্ট সাংবাদিক ও তেল-গ্যাস-খনিজ সম্পদ ও বিদ্যুত বন্দর রক্ষা জাতীয় কমিটি মাগুরা জেলার সদস্য সচিব শরীফ তেহরান টুটুল, বাল্যবন্ধু আশরাফুল ইসলাম, প্রতিবেশী সুজিত দাস, গণফোরাম মাগুরা জেলার নেতা হামিদুল হক ও আব্দুল বারিক বিশ্বাস প্রমুখ। 

বক্তাগণ স্মৃতিচারণের মধ্য দিয়ে ওহিদুল হকের সংগ্রামী জীবনের বিভিন্ন দিক তুলে ধরেন। তিনি আজীবন শোষণমুক্ত বাংলাদেশের স্বপ্ন দেখে গেছেন। সেই শোষণমুক্তির লড়াইয়ে নিজেদের আরও বেশি সক্রিয় রাখার মাধ্যমে ওহিদুল হকের সংগ্রামী জীবনের প্রতি প্রকৃত অর্থে শ্রদ্ধা জানানো হবে বলে আলোচকেরা উল্লেখ করেন।

আরও খবর



পত্নীতলায় মহান মে দিবস পালিত

প্রকাশিত:বুধবার ০১ মে ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ১৭ মে ২০২৪ | ৯৫জন দেখেছেন

Image
দিলিপ চৌহান, পত্নীতলা (নওগাঁ) প্রতিনিধি:সারাদেশের ন্যায় পত্নীতলায় যথাযোগ্য মর্যাদায় মহান মে দিবস পালিত হয়েছে। বুধবার পত্নীতলা ইমারত নির্মাণ শ্রমিক ইউনিয়ন (রেজিঃ ৩২৫০) সহ অন্যান্য শ্রমিক সংগঠনগুলি পৃথক পৃথক ভাবে র‍্যালি শেষে স্ব স্ব কার্যালয়ে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিলের আয়োজন করে।

'শ্রমিক-মালিক গড়বো দেশ, স্মার্ট হবে বাংলাদেশ' এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে  শ্রমিক সংগঠন গুলি স্ব স্ব কার্যালয়ে সকালে জাতীয় পতাকা ও কালো পতাকা উত্তোলন, কালো ব্যাচ ধারণ শেষে বর্ণাঢ্য র‍্যালি বের করে এবং স্ব স্ব কার্যালয়ে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিলের আয়োজন করে।

পত্নীতলা ইমারত নির্মাণ শ্রমিক সংগঠনের উদ্যোগে বেলা ১১টায় একটি র‍্যালি নজিপুর পুরাতন বাজার কার্যালয় হতে বের করে নজিপুর বাস স্ট্যান্ড গোল চত্বর হয়ে কার্যালয়ে ফিরে আলহাজ্ব মাওলানা খয়বর আলীর পরিচালনায় দোয়া ও বিশেষ মোনাজাত শেষে ইমারত নির্মাণ শ্রমিক সংগঠনের সভাপতি আলহাজ্ব বুলবুল চৌধুরীর সভাপতিত্বে এবং উপজেলা দূর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির সাধারণ সম্পাদক আলহাজ্ব জয়নাল আবেদিনের সঞ্চালনায় প্রধান অতিথি হিসেবে  বক্তব্য রাখেন পত্নীতলা থানার অফিসার ইনচার্জ মোজাফফর রহমান, বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন ইঞ্জিনিয়ার বাবু হীরেন কুমার, জাতীয় মহিলা সংস্থা পত্নীতলার দায়িত্ব প্রাপ্ত অফিসার আমিনুল হক। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন পত্নীতলা ইমারত নির্মাণ শ্রমিক সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক বিপুল চন্দ্র, সহ-সভাপতি রেজাউল ইসলাম কালু, অভিলাষ চন্দ্র, আনোয়ার হোসেন, ইসমাইল হোসেন, নৌশাদ আলী, সাঃবাদিক আঃ মতিন, মিজানুর রহমান, পরেশ টুডু প্রমুখ। পরে সদস্যদের মাঝে খানা বিতরণ করা হয়।

আরও খবর



মাতৃত্বের অনুভূতি পেতে চলেছেন ফারিয়া শাহরিন

প্রকাশিত:রবিবার ১২ মে ২০২৪ | হালনাগাদ:শনিবার ১৮ মে ২০২৪ | ৯৫জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:গত বছরের জুলাইয়ের বিয়ের খবর জানিয়েছিলেন লাক্স তারকা ফারিয়া শাহরিন। এবার মা দিবসে দিলেন নতুন সুখবর। ‘ব্যাচেলর পয়েন্ট’ নাটকে অন্তরা খ্যাত এই অভিনেত্রী মাতৃত্বের অনুভূতি পেতে চলেছেন।

রোববার (১২ মে) ফারিয়া তার ফেসবুক পোস্টে লিখেছেন, ‘বিসমিল্লাহ। হ্যাপি মাদারস ডে টু মি’। প্রিয় তারকার কাছ থেকে এমন খবর পেয়ে বিনোদন অঙ্গনে তার বন্ধু-শুভাকাঙ্ক্ষীরা অভিনন্দন ও শুভকামনা জানিয়েছেন।

ফারিয়া শাহরিন বলেন, মা হওয়ার অনুভূতি ভাষায় প্রকাশ করে বোঝানো যাবে না। স্বপ্ন সত্যি হলো। সবার কাছে দোয়া চাই।

তিনি আরও বলেন, ফেসবুকে কোনো পোস্ট দেওয়ার পর মানুষের বদ নজরকে ভয় পাই। কিন্তু মা হওয়ার মতো খুশির খবর শেয়ার না করে পারলাম না।

নতুন সন্তান আসার বিষয়টি জানার পর অভিনেত্রী ফারিয়া সিদ্ধান্ত নিয়েছেন আপাতত শুটিং থেকে দূরে থাকবেন। মাতৃত্বকালীন সময়টা নিজের জন্য দেবেন।

২০২১ সালের ফেব্রুয়ারিতে মাহফুজ রায়ানের সঙ্গে বাগদান হয় ফারিয়া শাহরিনের। পরে পারিবারিকভাবে তাদের বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্ন হয় ২০২৩ সালে।


আরও খবর