Logo
আজঃ Tuesday ২৮ June ২০২২
শিরোনাম
নাসিরনগরে বন্যার্তদের মাঝে ইসলামী ফ্রন্টের ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ রাজধানীর মাতুয়াইলে পদ্মাসেতু উদ্ধোধন উপলক্ষে দোয়া মাহফিল রূপগঞ্জে ভূমি অফিসে চোর রূপগঞ্জে গৃহবধূর বাড়িতে হামলা ভাংচুর লুটপাট ॥ শ্লীলতাহানী নাসিরনগরে পুকুরের মালিকানা নিয়ে দু পক্ষের সংঘর্ষে মহিলাসহ আহত ৪ পদ্মা সেতু উদ্ভোধন উপলক্ষে শশী আক্তার শাহীনার নেতৃত্বে আনন্দ মিছিল করোনা শনাক্ত বেড়েছে, মৃত্যু ২ জনের র‍্যাব-১১ অভিমান চালিয়ে ৯৬ কেজি গাঁজা,১৩৪৬০ পিস ইয়াবাসহ ৬ মাদক বিক্রেতাকে গ্রেফতার করেছে বন্যাকবলিত ভাটি অঞ্চল পরিদর্শন করেন এমপি সংগ্রাম পদ্মা সেতু উদ্বোধনে রূপগঞ্জে আনন্দ উৎসব সভা ॥ শোভাযাত্রা

আড়াইহাজারে ধর্ষণ মামলায় ছাত্রলীগ নেতা গ্রেপ্তার

প্রকাশিত:Thursday ২৩ June ২০২২ | হালনাগাদ:Tuesday ২৮ June ২০২২ | ১৩৪জন দেখেছেন
Image


স্টাফ রিপোর্টারঃ মোঃআবু কাওছার মিঠু 


আড়াইহাজারে স্কুল ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে দায়েরকৃত মামলায় সাতগ্রাম ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাবেক সহ-সাধারণ সম্পাদক অপু (২২) কে গ্রেপ্তার করে আদালতে প্রেরণ করেছে পুলিশ। 


বুধবার (২২ জুন) দুপুরে তাকে আদালতে প্রেরণ করা হয়। গ্রেপ্তারকৃত অপু ওই ইউনিয়নের নোয়াদ্দা গ্রামের মো. শহিদের পুত্র।


মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, একই ইউনিয়নের দেয়াবৈ গ্রামের দীনমোহাম্মদের কন্যা পুরিন্দা কে এম সাদিকুর রহমান উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণীর ছাত্রী (১৭) গত ১০ মে সকাল ১০টায় স্কুলে যাওয়ার পথে তাকে নিজের ব্যবহৃত কালো প্রাইভেট কারে তুলে নেয় অপু। 


পরে তাকে সকাল ১১টায় অপুর বাড়ীর কাছে বালুর মাঠে নির্জন স্থানে নিয়ে গাড়ির ভিতরেই বলপূর্বক ধর্ষণ করে। ধর্ষিতা যাতে বিষয়টি কাউকে না বলে সেই জন্য অপু ধর্ষিতাকে এক সপ্তাহের মধ্যে বিয়ে করবে বলে আশ্বাস দেয়। তাই ধর্ষিতা বিষয়টি গোপন রাখে। 


কিন্তু পরে অপু বিয়ের বিষয়ে কালক্ষেপণ করলে ধর্ষিতা বিষয়টি তার পরিবারকে জানায়। বিয়ের ব্যাপারে অপুর সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে সে ধর্ষিতাকে  বিয়ে করবেনা বলে সাফ জানিয়ে দেয়।ফলে ধর্ষিতার পিতা দীন মোহাম্মদ বাদী হয়ে বুধবার সকালে অপুকে একমাত্র অভিযুক্ত করে মামলাটি দায়ের করেন। মামলা রুজু হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে অপুকে তার বাড়ী থেকে গ্রেফতার করে পুলিশ। 


এ ব্যাপারে আড়াইহাজার থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আজিজুল হক হাওলাদার বলেন, মামলা গ্রহণের সাথে সাথে অভিযুক্তকে গ্রেপ্তার করে আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।


আরও খবর



এসএসসি পাসে আকিজ ফুডে চাকরি

প্রকাশিত:Monday ২৭ June ২০২২ | হালনাগাদ:Monday ২৭ June ২০২২ | ১৯জন দেখেছেন
Image

শীর্ষস্থানীয় শিল্পপ্রতিষ্ঠান আকিজ ফুড অ্যান্ড বেভারেজ লিমিটেডে ‘অপারেটর’ পদে জনবল নিয়োগ দেওয়া হবে। আগ্রহীরা আগামী ০৫ জুলাই পর্যন্ত আবেদন করতে পারবেন।

প্রতিষ্ঠানের নাম: আকিজ ফুড অ্যান্ড বেভারেজ লিমিটেড
বিভাগের নাম: বেকারি

পদের নাম: অপারেটর
পদসংখ্যা: নির্ধারিত নয়
শিক্ষাগত যোগ্যতা: এসএসসি
অভিজ্ঞতা: ০২-০৫ বছর
বেতন: আলোচনা সাপেক্ষ

চাকরির ধরন: ফুল টাইম
প্রার্থীর ধরন: পুরুষ
বয়স: ২০-৩৫ বছর
কর্মস্থল: ঢাকা (ধামরাই)

আবেদনের নিয়ম: আগ্রহীরা jobs.bdjobs.com এর মাধ্যমে আবেদন করতে পারবেন।

আবেদনের শেষ সময়: ০৫ জুলাই ২০২২

সূত্র: বিডিজবস ডটকম


আরও খবর



চাহিদার মাত্র ৩৩ ভাগ ঋণ পান এসএমই উদ্যোক্তারা

প্রকাশিত:Monday ০৬ June ২০২২ | হালনাগাদ:Monday ২৭ June ২০২২ | ৬৬জন দেখেছেন
Image

দেশের ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্পখাতের (এসএমই) উদ্যোক্তারা চাহিদার মাত্র ৩৩ ভাগ ঋণ পান। আর বিতরণ করা ঋণের মাত্র ১৯ ভাগ পান গ্রামীণ উদ্যোক্তারা। অথচ কোভিড-১৯ মহামারিকালে এসএমই খাতের উদ্যোক্তারাই সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন।

সোমবার (৬ জুন) নগরীর পর্যটন ভবনে এসএমই ফাউন্ডেশন এবং ইকোনোমিক অ্যান্ড সোশ্যাল কমিশন (ইউএনইএসসিএপি) এর উদ্যোগে আয়োজিত ‘রেথিনকিং এমএসএমই ফিন্যান্স: অ্যা পোস্ট-ক্রাইসিস পলিসি এজেন্ডা’ শীর্ষক জাতীয় সেমিনারে এসব তথ্য তুলে ধরা হয়।

কোভিড-১৯ প্রেক্ষাপটে প্রযুক্তি (ডিজিটাল ফাইনান্সিং এবং ফিন্যান্সিয়াল টেকনোলজি) ও ক্লাস্টারভিত্তিক অর্থায়ন ব্যবস্থার উন্নয়ন ও প্রসারের মাধ্যমে ক্ষুদ্র ও মাঝারি উদ্যোক্তাদের সহজ শর্তে ঋণের আওতায় আনার বিষয়ে বিশেষজ্ঞদের মতামত ও সুপারিশ গ্রহণের লক্ষ্যে এ সেমিনারের আয়োজন করা হয়।

এসএমই ফাউন্ডেশনের চেয়ারপারসন অধ্যাপক ড. মো. মাসুদুর রহমানের সভাপতিত্বে সেমিনারে প্রধান অতিথি হিসেবে শিল্পসচিব জাকিয়া সুলতানা ও বিশেষ অতিথির হিসেবে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ ব্যাংকের পরিচালক মো. জাকের হোসেন।

সেমিনারে স্বাগত বক্তব্যে এসএমই ফাউন্ডেশনের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ড. মো. মফিজুর রহমান বলেন, সরকারি-বেসরকারি বিভিন্ন সংস্থার গবেষণায় দেখা গেছে, কোভিড-১৯ এর কারণে দেশের ৯৪ ভাগ ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্প প্রতিষ্ঠানের বিক্রি কমে গেছে। ২১ ভাগ প্রতিষ্ঠান বন্ধ হয়ে গিয়েছিল। এসব প্রতিষ্ঠানের ৩৭ ভাগ কর্মী কাজ হারিয়েছেন এবং ৭০ ভাগ কর্মী চাকরি হারানোর ঝুঁকিতে ছিলেন।

তিনি বলেন, একই সময়ে শতকরা ৮৩ ভাগ প্রতিষ্ঠান লোকসানের মুখে পড়েছে এবং ৩৩ ভাগ প্রতিষ্ঠান ঋণের কিস্তি শোধ করতে পারেনি। এজন্য ক্ষুদ্র ও মাঝারি প্রতিষ্ঠানের ক্ষতি কাটিয়ে উঠতে সরকারের প্রণোদনা প্যাকেজের পরিমাণ আরও বাড়ানো প্রয়োজন। অথবা প্রণোদনা প্যাকেজ নতুন করে দেওয়া না হলেও সহজ শর্তে তাদের জন্য অর্থায়নের ব্যবস্থা করা দরকার।

শিল্পসচিব জাকিয়া সুলতানা বলেন, দেশের শিল্পখাতের কর্মসংস্থানের ৮৫ ভাগই এসএমই খাতের অবদান। দেশের অর্থনীতিতে এসএমই খাতের অবদান বাড়াতে এ খাতের উন্নয়নে কাজ করছে এসএমই ফাউন্ডেশন। তিনি এসএমই খাতের উন্নয়নে বিভিন্ন কর্মসূচি তুলে ধরেন।

এসএমই ফাউন্ডেশনের চেয়ারপারসন বলেন, কোভিড-১৯ এর ক্ষতি কাটিয়ে উঠতে এসএমই উদ্যোক্তাদের সহজ শর্তে ঋণ প্রয়োজন। এজন্য উদ্যোক্তাদের ঋণ পাওয়া সহজ করতে ডিজিটাল সেবা চালু করা যেতে পারে।

সেমিনারে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপনায় বিআইবিএম-এর সহযোগী অধ্যাপক মো. মোশাররফ হোসেন জানান, দেশের প্রায় ৮১ লাখ এসএমই প্রতিষ্ঠানের মধ্যে ৫৮ লাখ বা ৭০ ভাগ শহর এলাকার বাইরে হলেও এসএমই ঋণের ৮১ ভাগই পান শহর এলাকার উদ্যোক্তারা। আর নারী উদ্যোক্তারা পান মোট ঋণের মাত্র ৭ ভাগের মতো।


আরও খবর



মাদকমুক্ত চা বাগানের স্বপ্ন সুনীলের, ছড়িয়েছেন শিক্ষার আলো

প্রকাশিত:Saturday ০৪ June ২০২২ | হালনাগাদ:Tuesday ২৮ June ২০২২ | ৬০জন দেখেছেন
Image

বাবা ছিলেন চা বাগানের শ্রমিক। নিজেও এখন কাজ করছেন একটি চা বাগানের হিসাব রক্ষক হিসেবে। ফলে একেবারে কাছ থেকে চা শ্রমিকদের জীবনযাপন দেখেছেন তিনি। জানেন তাদের অশিক্ষার কথা, কষ্টের কথা। তাই সমাজের এই অবহেলিত জনগোষ্ঠীর জীবনমান উন্নয়নে নিজের ক্ষুদ্র অবস্থান থেকেই কাজ শুরু করেন। পেয়েছেন সফলতাও। তার প্রচেষ্টায় এখন চা শ্রমিকদের অনেকের সন্তান উচ্চশিক্ষিত হয়ে ভালো চাকরি করছেন।

বলছি হবিগঞ্জের চুনারুঘাট উপজেলার দেউন্দি চা বাগানের হিসাব রক্ষক সুনীল বিশ্বাসের কথা। চা শ্রমিক পরিবারে জন্ম নিয়েও নিজের প্রচেষ্টায় উচ্চশিক্ষা গ্রহণ করেছেন। করেছেন শিক্ষকতাও। ভাই-বোন, সন্তানদেরও করেছেন উচ্চশিক্ষিত। শুধু নিজে আর নিজের পরিবার নয়, চা শ্রমিকদের শিক্ষিত আর নেশামুক্ত করতে সংগ্রাম চালিয়ে যাচ্ছেন। গড়ে তুলেছেন থিয়েটার। নাটকের মাধ্যমে তাদের জাগ্রত করতে কাজ করছেন। তুলে ধরছেন তাদের বঞ্চনার কথা।

সুনীল বিশ্বাস জাগো নিউজকে জানান, ১৯৮১ সালে তিনি এসএসসি পাস করেন। এরপর ১৯৮৩ সালে এইচএসসি এবং ১৯৮৮ সালে বিয়ে পাস করেন। শিক্ষাজীবন শেষে ৬ বছর প্রধান শিক্ষক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। পরে চা বাগানে এসে আরও চার বছর শিক্ষকতা করেছেন। পাশাপাশি ঢাকা থেকে নিয়েছেন পল্লী চিকিৎসকের প্রশিক্ষণ। ২০০০ সাল থেকে তিনি বাগানের হিসাব রক্ষক হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। পাশাপাশি বাগান ও এর আশপাশের এলাকার মানুষকে চিকিৎসা সেবাও দেন।

তিনি বলেন, আমি যখন এসএসসি পাস করি তখন বাগান এলাকার কোনো মানুষ পড়ালেখা করতো না। আমার সঙ্গে আমাদের বিদ্যালয় থেকে মাত্র ১০ জন এসএসসি পাস করেছিলাম। নিজে শিক্ষক হওয়ার কারণে আমার ভাই মলিন বিশ্বাস ও বোন চামেলি বিশ্বাসকেও পড়ালেখা করিয়েছি। আমি প্রথম আর আমার ভাই দ্বিতীয় ব্যক্তি যে বাগানে থেকে এসএসসি পাস করেছি। আর মেয়েদের মধ্যে আমার বোন প্রথম যে এসএসসি পাস করেছিল।

সুনীল বিশ্বাস আরও বলেন, আমাদের বাবা হরিদাশ বিশ্বাস ছিলেন বাগানের ফ্যাক্টরির মেশিনম্যান। তিনি এ চাকরির পাশাপাশি কৃষিকাজ করতেন। তিনি জীবনে একদিনও মদ পান করেননি। আমি চা শ্রমিকদের জীবনকে খুব কাছ থেকে দেখেছি। এখান থেকেই মূলত আমরা শিক্ষাগ্রহণ করেছি। বাবা অনেক কষ্ট করে আমাদের পড়ালেখা করিয়েছেন। শিক্ষিত হয়ে আমরা বুঝতে শিখেছি যে মদ পান করা যাবে না। মাদক সেবন কখনোই কল্যাণ এনে দিতে পারে না।

jagonews24

তিনি জানান, তার দুই ছেলে। বড় ছেলে কানন বিশ্বাস প্রকৌশলী। তিনি ঢাকায় একটি বিদেশি কোম্পানিতে চাকরি করেন। ছোট ছেলে প্লাবন বিশ্বাস তবলা বাদকের ওপর প্রশিক্ষণ নিয়েছেন। বর্তমানে তিনি চার্টার্ড অ্যাকাউনট্যান্ট (সিএ) পড়ছেন।

সন্তানদের শিক্ষিত করার পাশাপাশি চা বাগানের প্রতিটি ছেলে-মেয়েকে শিক্ষিত করে গড়ে তুলনে চান সুনীল। চা শ্রমিকরা মাদক থেকে দূরে থাকবে এটা আর স্বপ্ন। সে জন্য ১৯৮৮ সালে চা শ্রমিকদের কথা তুলে ধরার লক্ষ্যে প্রতিষ্ঠা করেন প্রতীক থিয়েটার নামে একটি নাট্য সংগঠন। প্রতীক থিয়েটারের মাধ্যমে দীর্ঘ ৩৫ বছর ধরে সংগ্রাম করে চলেছেন তিনি। চা শ্রমিকদের জাগ্রত করতে কাজ করছেন। তাদের বঞ্চনার কথা তুলে ধরছেন।

চা শ্রমিকের সন্তান শাকিল বাউরী। তিনি সরকারি বৃন্দাবন কলেজে বিবিএস প্রথম বর্ষে পড়ছেন। শাকিল বলেন, সুনীল বিশ্বাস আছেন বলেই আমরা আজ চা শ্রমিকদের দুঃখ-কষ্টের কথা তুলে ধরতে পারছি। তার অনুপ্রেরণায় আজ আমরা পড়ালেখা করছি। দীর্ঘ ৩৫ বছর ধরে তার প্রতিষ্ঠিত থিয়েটারের মাধ্যমে তুলে ধরতে পারছি চা শ্রমিকদের জীবনধারার কথা।

স্থানীয় ব্যবসায়ী কাঞ্চন বিশ্বাস বলেন, বাগানের শুরু থেকে এখানে শিক্ষার কোনো ব্যবস্থা ছিল না। সুনীল বিশ্বাস যখন এসএসসি পাস করেন তার আগে বাগানে কেউ এসএসসি পাস করেননি। তার অনুপ্রেরণায় এখন এই বাগানের হাজারও ছেলে-মেয়ে শিক্ষিত হয়েছেন। সুনীল এ বাগানের উন্নয়নের কান্ডারি।

শায়েস্তাগঞ্জ ডিগ্রি কলেজের শিক্ষার্থী মিলি ভূমিজ প্রতীক থিয়েটারের একজন কর্মী। তিনি বলেন, সুনীল বিশ্বাস যখন এসএসসি পাস করেন তখন বাগানে কেউ পড়াশোনা করতো না। কোনো ছাত্রছাত্রী ছিল না। সবাই তখন শ্রমিক ছিলেন। বাগানে কাজ করতেন। বর্তমানে তাকে দেখে বাগানের ছেলেমেয়েরা লেখাপড়া করছে। শুধু তাই নয়, তার প্রতিষ্ঠিত থিয়েটারের মাধ্যমে মাদক সম্পর্কে আমরা মানুষকে সচেতন করছি।


আরও খবর



‘বন্যায় মানুষের দুর্ভোগেও পদ্মা সেতু নিয়ে ফুর্তিতে সরকার’

প্রকাশিত:Friday ২৪ June ২০২২ | হালনাগাদ:Tuesday ২৮ June ২০২২ | ২৪জন দেখেছেন
Image

বাংলাদেশ গণ অধিকার পরিষদের আহ্বায়ক ড. রেজা কিবরিয়া বলেছেন, দেশে যখন ভয়াবহ বন্যার কারণে মানুষ কষ্ট পাচ্ছে সরকার তখন পদ্মা সেতু উদ্বোধন নিয়ে আমোদ-ফুর্তিতে ব্যস্ত হয়ে পড়েছে। পদ্মা সেতু নির্মাণে সরকার অতিরিক্ত অর্থ ব্যয় করেছে। পাশের দেশ ভারতে পদ্মার চেয়ে গভীর ও লম্বা সেতু নির্মাণ হয়েছে ১০ ভাগের এক ভাগ খরচে।

শুক্রবার (১৪ জুন) হবিগঞ্জের নবীগঞ্জে ইনাতগঞ্জ উচ্চ বিদ্যালয় বন্যা আশ্রয় কেন্দ্র ও বান্দের বাজারে বন্যার্ত চার শতাধিক পরিবারের মাঝে খাদ্য বিতরণ শেষে তিনি এ মন্তব্য করেন।

এ সময় গণ অধিকার পরিষদের সদস্য সচিব নুরুল হক নুর বলেন, সিলেট, সুনামগঞ্জ, হবিগঞ্জসহ বেশ কয়েকটি স্থানে বন্যায় মানুষ মানবেতর জীবনযাপন করছে। তখন এক পদ্মা সেতু উদ্বোধনকে কেন্দ্র করে সরকার সব রাষ্ট্র ব্যবস্থাকে বদ্ধ করে রেখেছে।

এ সময় গণ অধিকার পরিষদের যুগ্ম-আহ্বায়ক শহিদুল ইসলাম ফাহিম, মাহফুজুর রহমান, চৌধুরী আশরাফুল বারী নোমান, সহকারী সদস্য সচিব শেখ খায়রুল কবির, শাহ আজাদ আলী সুমন, কেন্দ্রীয় সদস্য আবু হোসেন জীবন, যুব অধিকার পরিষদের সভাপতি মনজুর মোরশেদ মামুন, শ্রমিক অধিকার পরিষদের সভাপতি আব্দুর রহমান, ছাত্র অধিকার পরিষদের সাধারণ আরিফুল ইসলাম আদিব, ছাত্র বিষয়ক সম্পাদক রোকেয়া জাবেদ মায়া, তামান্না ফেরদৌস শিখা, গণ অধিকার পরিষদের নবীগঞ্জ উপজেলা সমন্বয়ক নুরুল আমিন পাঠান, শাহাবুদ্দিন শুভ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।


আরও খবর



মিডল্যান্ড ব্যাংকের দুটি নতুন ডিপোজিট স্কিম উদ্বোধন

প্রকাশিত:Sunday ২৬ June ২০২২ | হালনাগাদ:Tuesday ২৮ June ২০২২ | ২৬জন দেখেছেন
Image

বাণিজ্যিক কার্যক্রমের নবম বছর পূর্ণ করেছে মিডল্যান্ড ব্যাংক (এমডিবি) । এ উপলক্ষে গত ২০ জুন দুটি নতুন ডিপোজিট স্কিম উদ্বোধন করেছে ব্যাংকটি।

প্রধান কার্যালয়ের বোর্ড কক্ষে আয়োজিত উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে ডিপোজিট স্কিম দুটি উদ্বোধন করেন ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মো. আহসান-উজ জামান। এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন- ব্যাংকের উপ-ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. জাহিদ হোসেন ও সিনিয়র ম্যানেজমেন্ট টিমের সদস্যরা।

অনুষ্ঠানে আহসান-উজ জামান বলেন, আমরা পরিষেবা ও পণ্য উদ্ভাবনের ক্ষেত্রে সবসমই অগ্রগামী। আজ আমরা ‘এমডিবি ডাবল বেনিফিট প্লাস স্কিম’ও ‘এমডিবি সালাম ডাবল বেনিফিট প্লাস (ইসলামি ব্যাংকিং পন্য) স্কিম’উদ্বোধন করতে পেরে অত্যন্ত আনন্দিত। গ্রাহকরা উভয় সঞ্চয় হিসাব দুটি ব্যাংকের যে কোনো শাখা, উপশাখা, এজেন্ট ব্যাংকিং সেন্টারের পাশাপাশি ‘মিডল্যান্ড অনলাইন’ অ্যাপ্লিকেশনের মাধ্যমে যে কোনো সময় খুলতে পারবেন।

অনুষ্ঠানে ব্যাংকের রিটেইল ডিস্ট্রিবিউশন বিভাগের প্রধান মো. রাশেদ আক্তার, ইসলামি ব্যাংকিং উইন্ডোর ব্যবস্থাপক সৈয়দ সাকিবুজ্জামান নতুন স্কিম দুটির জন্য ডিজাইন করা প্ল্যাকার্ড প্রদর্শন করেন।


আরও খবর