Logo
আজঃ Wednesday ২৬ January ২০২২
শিরোনাম
অভিনেত্রীর বিরুদ্ধে সহ-শিল্পীদের নগ্ন ভিডিও ইন্টারনেটে ছড়িয়ে দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে। বিদেশের মাটিতে কৃষিপণ্য সরবরাহ বাড়াণোর লক্ষ্যে : ইরান রাজনৈতিক কঠিন চাপে রয়েছেন মেয়র আরিফুল স্বপ্নের মেট্রোরেল রওনা হলো আগারগাঁওয়ের উদ্দেশে ওমিক্রনের সংক্রমণে ভারতে ৩১ জানুয়ারি পর্যন্ত নিয়মিত আন্তর্জাতিক ফ্লাইট বন্ধ মুরাদ হাসান এমিরেটসের ফ্লাইটে কানাডা গেলেন সাময়িক বরখাস্ত হয়েছেন রাজশাহীর কাটাখালী পৌরসভার মেয়র আব্বাস আলী মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ আগামী বিশ্বকাপে ব্যাটসম্যানদের উন্নতি দেখতে চান করোনাভাইরাসে আরও ছয়জনের মৃত্যু বিশ্বের ৪৩তম ক্ষমতাধর নারী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

আলেম-ওলামাদের প্রতি প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা-ভক্তি রয়েছে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

প্রকাশিত:Saturday ২৭ November ২০২১ | হালনাগাদ:Wednesday ২৬ January ২০২২ | ২০৯জন দেখেছেন
ডেস্ক এডিটর

Image


আলেম-ওলামাদের প্রতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার যথেষ্ট শ্রদ্ধা-ভক্তি রয়েছে বলে জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল।শনিবার হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশ আয়োজিত ওলামা-মাশায়েখ সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা জানান।

আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেন, প্রধানমন্ত্রী হেফাজতে ইসলাম নিয়ে ভাবেন। একজন ধার্মিক মুসলিম হিসেবে শেখ হাসিনা রাষ্ট্র পরিচালনা করছেন। তিনি সকালে পবিত্র কোরআন তিলাওয়াত করে কাজ শুরু করেন। আলেম-ওলামাদের প্রতি তার যথেষ্ট শ্রদ্ধা-ভক্তি রয়েছে। আপনাদের মতো প্রধানমন্ত্রী শফী সাহেবকে (শাহ আহমদ শফী) অত্যন্ত ভালোবাসতেন।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, আপনারা বলেছেন হেফাজত অরাজনৈতিক দল, হেফাজত রাজনীতি করে না, নির্বাচনে যায় না। কিন্তু বাইরে থেকে দুষ্কৃতিকারীরা এসে আপনাদের অপবাদ অথবা কুমন্ত্রণা দিচ্ছে। সেখানে আপনারা ভুল করছেন অথবা ভুল করে ফেলেছেন।

মন্ত্রী আরো বলেন, আমরা বারবার বলতে চাই আপনারা আধ্যাত্মিক লাইনের চর্চা করেন, কোরআন-সুন্নাহ অনুযায়ী চলেন। আপনারা যেহেতু অরাজনৈতিক প্রতিষ্ঠান, সেহেতু কেন আপনাদের মাঝে বহিরাগতদের অনুপ্রবেশ ঘটে? আপনাদের আরো সাবধান হওয়া উচিত।

সম্মেলনে আরো বক্তব্য রাখেন- হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের আমীর শাহ মুহিববুল্লাহ বাবুনগরী, মহাসচিব নুরুল ইসলাম।

এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- আতাউল্লাহ হাফেজ্জি, অধ্যক্ষ মিজানুর রহমান, সাজিদুর রহমান, ইয়াহইয়া, তাজুল ইসলাম, আব্দুল আওয়াল প্রমুখ।

 

-খবর প্রতিদিন /সি.বা 


আরও খবর



নাসিক নির্বাচনে করোনা হিরো খোরশেদ আবারও কাউন্সিলর নির্বাচিত হয়েছেন

নাসিক নির্বাচনে করোনা হিরো খোরশেদ আবারও কাউন্সিলর নির্বাচিত হয়েছেন

প্রকাশিত:Monday ১৭ January ২০২২ | হালনাগাদ:Wednesday ২৬ January ২০২২ | ৯৯জন দেখেছেন
Image


নাজমুল হাসানঃ

নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন (নাসিক) নির্বাচনে আবারও কাউন্সিলর নির্বাচিত হয়েছেন সেই করোনাযোদ্ধা মাকছুদুল আলম খন্দকার খোরশেদ। ঠেলাগাড়ী প্রতীকে তিনি ভোট পেয়েছেন ১৩ হাজার ৭৯২টি। অন্যদিকে প্রতিদ্বন্দ্বী রেডিও প্রতীক নিয়ে ভোট পেয়েছেন ১ হাজার ২২টি। আজ রবিবার এই ফলাফল জানা যায়। 


সকাল ৮টায় ভোটগ্রহণ শুরু হয়ে শেষ হয় বিকাল ৪টায়।নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বীর থেকে ১২৭৭০ ভোট বেশি পেয়ে চতুর্থ বারের মত নাসিকের ১৩নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর নির্বাচিত হন খোরশেদ। মাকছুদুল আলম খন্দকার খোরশেদ বলেন, আল্লাহ রাব্বুল আল-আমীনের দরবারে শোকরিয়া ও ১৩নং ওয়ার্ডবাসীকে ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানাই।


করোনা পরিস্থিতিতে সেবামূলক কাজ করে আলোচনায় আসেন কাউন্সিলর খোরশেদ। করোনায় মরদেহ দাফন করতে টিম গঠন করেন তিনি। তার এ উদ্যোগ দেশ ব্যাপি প্রশংসিত হয়।মাকছুদুল আলম ‘করোনা হিরো’ নামে পরিচিত। এর আগে ২০০৩ সালেও কমিশনার নির্বাচিত হয়েছিলেন তিনি।


সি.বা নিজস্ব প্রতিবেদক                   


আরও খবর



জাতীয় বা স্থানীয় কোনো নির্বাচনেই অংশ নেবে না বিএনপি

প্রকাশিত:Friday ০৭ January ২০২২ | হালনাগাদ:Wednesday ২৬ January ২০২২ | ১১৪জন দেখেছেন
Image

বর্তমান সরকারের অধীনে জাতীয় বা স্থানীয় কোনো নির্বাচনেই অংশ নেবে না বিএনপি- এ সিদ্ধান্ত আগেই নেওয়া ছিল। তবে স্থানীয় সরকার নির্বাচনের ক্ষেত্রে কিছুটা ছাড় ছিল- দলের কেউ চাইলে স্বতন্ত্র প্রার্থিতা করতে পারবে। কিন্তু এবার সেই পথও বন্ধ করে দিয়েছে বিএনপি। দল থেকে জানানো হয়েছে, সিদ্ধান্ত অমান্য করে গুরুত্বপূর্ণ পদধারী কোনো নেতা স্বতন্ত্র হিসেবে ভোট করলে সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

দলের এ সিদ্ধান্তের কথা গতকাল বৃহস্পতিবার আমাদের সময়কে জানান বিএনপির জ্যেষ্ঠ যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী। তিনি বলেন, গুরুত্বপূর্ণ পদধারী কেউ স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে নির্বাচনে অংশগ্রহণ করলে তার বিরুদ্ধে সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেওয়া হবে। যারা নির্বাচনী প্রচারে অংশ নেবেন তারাও ছাড় পাবেন না। এ সিদ্ধান্ত অমান্য করলে তা শৃঙ্খলাবিরোধী কর্মকাণ্ড বলে গণ্য হবে।

বিএনপির দপ্তর সূত্রে জানা গেছে, ইউনিয়ন পরিষদ, পৌরসভা ও সিটি করপোরেশন নির্বাচনে অংশগ্রহণ করায় গতকাল পর্যন্ত পাঁচ নেতাকে অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে। নোয়াখালী পৌরসভা নির্বাচনে মেয়র পদে প্রার্থী হওয়ায় দুই নেতাকে অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে। তারা হলেন জেলা বিএনপির কোষাধ্যক্ষ ও নোয়াখালী পৌরসভা বিএনপির সভাপতি আবু নাছের এবং জেলা বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক শহিদুল ইসলাম। গত বুধবার রুহুল কবির রিজভী স্বাক্ষরিত চিঠিতে এ আদেশ দেওয়া হয়।

এ বিষয়ে শহিদুল ইসলাম বলেন, স্বতন্ত্র প্রার্থী হওয়া যাবে বলে দলের কেন্দ্রীয় পর্যায় থেকে ঘোষণা দেওয়ার কারণেই তিনি প্রার্থী হয়েছেন। এর মধ্যে দলীয় সিদ্ধান্ত পরিবর্তন হয়েছে কিনা, তা জানি না। সিদ্ধান্ত পরিবর্তন হলে আগেই আমাদের জানানো উচিত ছিল। এখন এমন সময় অব্যাহতির সিদ্ধান্ত দেওয়া হয়েছে, এ সময় পিছু হটার কোনো সুযোগ নেই। আর আবু নাছের বলেন, বিএনপি স্থানীয় সরকার নির্বাচনে প্রথমে অংশ নিয়েছিল। এর পর অনিয়মের কারণে সিদ্ধান্ত নেয়, এ সরকারের অধীনে আর কোনো স্থানীয় সরকার নির্বাচনে অংশ নেবে না। এর পর ঘোষণা দেওয়া হয় স্থানীয় পর্যায়ের কোনো নেতা চাইলে স্বতন্ত্র হিসেবে প্রার্থী হতে পারবেন। দলের এ সিদ্ধান্তে নির্বাচনে প্রার্থী হয়েছি। কিন্তু কোনো ধরনের কারণ দর্শানো ছাড়াই সরাসরি দলের পদ থেকে অব্যাহতির চিঠিতে হতবাক হয়েছি।

এ ছাড়া নাটোরের বাগাতিপাড়া পৌরসভায় মেয়র পদে নির্বাচন করায় পৌর বিএনপির আহ্বায়ক আমিরুল ইসলাম জামাল এবং স্থানীয় একটি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী হওয়ায় বাগাতিপাড়া উপজেলা বিএনপির যুগ্ম আহ্বায়ক শরিফুল ইসলামকে তাদের পদ থেকে গতকাল অব্যাহতি দেওয়া হয়। যদিও দলের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, ওই দুই প্রার্থী আগেই দলের কাছে অব্যাহতি চেয়েছিলেন। এর আগে নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন নির্বাচনে স্বতন্ত্র প্রার্থিতা করা তৈমূর আলম খন্দকারকে বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টার পদ ও নারায়ণগঞ্জ জেলা বিএনপির আহ্বায়কের পদ থেকে সরিয়ে দেওয়া হয়।

সরকারবিরোধী আন্দোলন জোরদার করতেই দলটি এ কঠোর অবস্থান নিয়েছে। বিএনপি নেতারা মনে করেন, দেশে-বিদেশে চাপে থাকা সরকার এখন সুষ্ঠু নির্বাচন করে ভাবমূর্তি পুনরুদ্ধারের চেষ্টা করবে। আবার দলের নেতাকর্মীরা নির্বাচনের দিকে মনোযোগ দিলে চলমান আন্দোলনের গতি মন্থর হয়ে পড়বে। সে ক্ষেত্রে একটা বার্তা নিয়ে সক্রিয় থাকতে চায় বিএনপি। সেটা হলো নিরপেক্ষ সরকার প্রতিষ্ঠা।


আরও খবর



মরে গেলেও মাঠ ছাড়বো না : তৈমুর

প্রকাশিত:Saturday ১৫ January ২০২২ | হালনাগাদ:Tuesday ২৫ January ২০২২ | ৬৩জন দেখেছেন
Image

নিজস্ব প্রতিবেদক: মরে গেলেও মাঠ ছাড়বো না, শেষ পর্যন্ত নেতাকর্মীরা মাঠে থাকবে বলে মন্তব্য করেছেন নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন নির্বাচনের স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী তৈমুর আলম খন্দকার। তিনি বলেন, আমরা ঐক্যবদ্ধ আছি। মাঠে থাকবো, পালিয়ে যাইনি।

আজ শনিবার বেলা ১২টায় নগরীর নিজ বাসভবনে এক সংবাদ সম্মেলনে তৈমুর আলম খন্দকার এসব কথা বলেন। এ সময় নির্বাচনের আগে তার নেতাকর্মীদের গ্রেপ্তার করা হচ্ছে বলেও অভিযোগ করেন তিনি।

ভোটে কোনো কেন্দ্র ঝুঁকিপূর্ণ মনে না করলেও সুষ্ঠু নির্বাচনে প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করেন তৈমুর আলম। একই সঙ্গে জনগণ ভোট দিতে পারলে এক লাখ ভোটের ব্যবধানে জিতবেন এমন আশাবাদ তৈমুরের।


আরও খবর



ভালুকা উপজেলার হবিরবাড়ী ইউনিয়নে জনপ্রিয়তার শীর্ষে চেয়ারম্যান প্রার্থী রেজাউল করিম রিপন

ভালুকা উপজেলার হবিরবাড়ী ইউনিয়নে জনপ্রিয়তার শীর্ষে চেয়ারম্যান প্রার্থী রেজাউল করিম রিপন

প্রকাশিত:Monday ১৭ January ২০২২ | হালনাগাদ:Monday ২৪ January ২০২২ | ৯৩জন দেখেছেন
Image


নাজমুল হাসানঃ

ময়মনসিং জেলার ভালুকা উপজেলার হবিরবাড়ী ইউনিয়নে আসন্ন ৩১ জানুয়ারী ২০২২ ইং তারিখে অনুষ্ঠিতব্য নির্বাচনে অন্যান্যদের মধ্যে চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে জনপ্রিয়তার শীর্ষে অবস্থান করছেন সাবেক ছাত্রলীগ নেতা মোঃ রেজাউল করিম রিপন ।


রিপন স্বতন্ত্র প্রার্থী হয়ে ঘোড়া মার্কা নিয়ে নির্বাচন যুদ্ধে অবতীর্ণ হয়েছেন।জানা যায় মোঃ রেজাউল করিম রিপন ছাত্রজীবন থেকে বঙ্গবন্ধুর আদর্শে অনুপ্রাণিত হয়ে প্রথমে ছাত্রলীগ এবং দীর্ঘদিন হতে স্থানীয় যুবলীগে সফলতার সাথে নেতৃত্ব দিয়ে আসছে। ইউপি নির্বাচনে ধারাবাহিক প্রক্রিয়া মোঃ রেজাউল করিম রিপন আওয়ামীলীগ হতে সরাসরি সমর্থন না পাওয়ায় দলীয় কর্মী ও নেতা এবং সাধারণ মানুষের সমর্থন ও দোয়া নিয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে নির্বাচনে প্রচারণা কার্যক্রম পরিচালনা করে আসছেন।


আরো জানা যায় কর্মীবান্ধবও সমাজ সংগঠক রিপন ইতিপূর্বে ইউনিয়নের বিভিন্ন এলাকায় শিক্ষা স্বাস্থ্য ও জনকল্যাণে দৃষ্টান্ত মূলক ভাবে অবদান রেখে আসছেন।এলাকার জনসাধারণের যেকোনো ছোট-বড় সমস্যায় দ্রুত ছুটে গিয়ে সমাধান করাসহ ইউনিয়নের নানা উন্নয়ন কর্মকাণ্ডে জড়িত থাকেন তরুণ এই চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী।


আমাদের সংবাদদাতা হবিরবাড়ী ইউনিয়ন এলাকায় পরিদর্শন করে জানতে পারেন আদর্শ ও সৎ চরিত্রবান রিপন কে ভোটযুদ্ধে জনগণ সুচিহ্নিত রায় প্রদান করে জয় করবেন এবং রিপন এর অনুকূলে নির্বাচনী পরিবেশ বিরাজ করছে মোঃ রিপন সর্বস্তরের জনগণের নিকট আন্তরিক সহায়তা ও দোয়া প্রার্থনা করেছেন।এদিকে, আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনকে কেন্দ্র করে ইতিমধ্যে ব্যানার, ফেস্টুন, পোস্টারিং করাসহ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকেরও ইউনিয়ন চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে তার সরব ভূমিকা বিদ্যমান।


এলাকার বিভিন্ন হাট-বাজার ও চায়ের দোকানে তাকে নিয়ে চলছে সর্বত্র আলোচনা এবং জনসাধারণের মধ্যে তাকে নিয়ে রয়েছে নানা জল্পনা-কল্পনা। এলাকার বিভিন্ন শেণি-পেশার মানুষ নিজ থেকেই মোঃ রেজাউল করিম রিপন এর পক্ষে প্রচারণাসহ দোয়া চেয়ে জনসাধারণের দ্বারপ্রান্তে যাচ্ছেন।


আরও খবর



ডেমরায় ব্যবসায়ীর কাছে ১০ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করেছে সন্ত্রাসীরা

ডেমরায় ব্যবসায়ীর কাছে ১০ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করেছে সন্ত্রাসীরা

প্রকাশিত:Friday ১৪ January ২০২২ | হালনাগাদ:Wednesday ২৬ January ২০২২ | ১১১জন দেখেছেন
Image


বজলুর রহমানঃ

রাজধানীর ডেমরা থানা এলাকার একটি সন্ত্রাসী চক্র ড্রেজার ব্যবসায়ী সাইদুর রহমান বাবুলের কাছে ১০ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করেছে বলে অভিযোগ উঠেছে।


চাঁদা দাবীর ঘটনায় সাইদুর রহমান বাবুল বাদী হয়ে ডেমরা থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন।ডেমরা থানার মামলা নং-১৫ তারিখ ৯/১১/২০২২ ইং।বাদীর লিখিত এজাহারে বর্নিত বক্তব্যসুত্রে জানাগেছে,ওই ব্যবসায়ীর ম্যানেজার মো. হারুন দাবির চাঁদা দিতে অস্বীকার করলে চাঁদাবাজরা ড্রেজারের পাইপ ও বিভিন্ন সরঞ্জাম ভাঙচুর করে। ব্যবসা বন্ধ করে দেওয়ার হুমকি দিয়ে চলে যায়। গত ৫ জানুয়ারি ডেমরা এলাকার দুর্গাপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।


ভুক্তভোগী ব্যবসায়ী রোববার রাত ১১টার দিকে অভিযুক্ত ছয়জনসহ অজ্ঞাত ৩-৪ জনের বিরুদ্ধে ডেমরা থানায় মামলা করেন। অভিযুক্তরা হলেন সবুজবাগ থানার বেগুনবাড়ী এলাকার মো. সামসুদ্দিনের ছেলে মো. নিজাম ও তার ছোট ভাই মুসলিম সরদার, একই থানার মানিকদিয়া চেয়ারম্যানবাড়ি এলাকার মো. নাসির, ছদর উদ্দিনের ছেলে ইমাম উদ্দিন, ভাইকদিয়া এলাকার আনিছ মিয়ার ছেলে আজিম মিয়া, একই এলাকার আলমাস আলীর ছেলে নজরুল ইসলাম।


ভাইকদিয়া এলাকার আনিছ মিয়ার ছেলে আজিম মিয়ার নামে বিভিন্ন অভিযোগে সবুজবাগ,রামপুরা,খিলগাঁও থানা সহ বিভিন্ন থানায় মামলা আছে বলে জানায় এলাকাবাসী ।তারা ভুমি জালিয়াত চক্রের সদস্য এবং ঐ এলাকার ভুমিদস্যু বলেও জানায় স্থানীয়রা।


ডেমরা থানার অফিসার ইনচার্জ খন্দকার নাসির উদ্দিন বলেন, ওই ব্যবসায়ী দীর্ঘদিন নদীতে ড্রেজার বসিয়ে এ এলাকার নিম্নাঞ্চলে বালু ভরাটের কাজ করে আসছেন। ওই কাজেই ড্রেজারের পাইপ দিয়ে বালু দুর্গাপুর হয়ে সবুজবাগ এলাকায় টানা হয়। আর এ পাইপে বালু টানাকে কেন্দ্র করে সবুজবাগ থানা এলাকার ওই সন্ত্রাসীরা চাঁদা দাবি করে।


আরও খবর