Logo
আজঃ Wednesday ০৮ December ২০২১
শিরোনাম
নৌকা পরাজিত স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান হলো তৃতীয় লিঙ্গের ঋতু! তৃতীয় ধাপে ইউনিয়ন নির্বাচনের ভোটগ্রহণ শেষ, চলছে গণনা কুমিল্লায় নৌকা পেয়েও সরে দাড়ালেন বাহালুল, প্রাথমিক সদস্য না হয়েও মনোনীত নূরুল! মাতুয়াইলে সড়ক উন্নয়ন কাজের উদ্ধোধন করলেন সংসদ সদস্য কাজী মনু পলো উৎসবে মাছ ধরায় মেতেছে মানুষ, চির চেনা বাংলা গাজীপুরে ৩০ সেকেন্ডেই মা-মেয়ের জীবন শেষ করল দুই খুনি হয়নি হাফ পাসের সিদ্ধান্ত,টাস্কফোর্স গঠনের প্রস্তাব আলেম-ওলামাদের প্রতি প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা-ভক্তি রয়েছে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রংপুরের তারাগঞ্জে ট্রাকচাপায় তিন নারী শ্রমিক নিহত কুমিল্লার তিতাস ও মেঘনা উপজেলায় ইউপি নির্বাচনে বিজয়ী যারা !
একসঙ্গে পাঁচ ছেলে-মেয়ের জন্ম

৬ মাসেই একসঙ্গে পাঁচ ছেলে-মেয়ের জন্ম দিলেন সাদিয়া

প্রকাশিত:Tuesday ০২ November 2০২1 | হালনাগাদ:Wednesday ০৮ December ২০২১ | ৪৩৪জন দেখেছেন
ডেস্ক এডিটর

Image

 


কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে একসঙ্গে পাঁচ সন্তানের জন্ম দিয়েছেন সাদিয়া খাতুন নামে এক প্রসূতি। তাদের মধ্যে চারজন মেয়ে ও একজন ছেলে। গর্ভধারণের মাত্র ছয় মাসের মাথায় শিশুগুলোর জন্ম হয়েছে।

 

হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, নির্দিষ্ট সময়ের আগে প্রসব হওয়ায় বাচ্চাগুলোর ওজন কম হয়েছে। মা সুস্থ থাকলেও বাচ্চাগুলো ঝুঁকিতে রয়েছে।মঙ্গলবার সকাল ১০টার দিকে একসঙ্গে পাঁচ শিশুর জন্ম হয়। প্রসূতি সাদিয়া কুমারখালী উপজেলার পান্টি ইউনিয়নের পান্টি গ্রামের কলেজপাড়া এলাকার সোহেল রানার স্ত্রী।

 

হাসপাতাল সূত্র জানায়, ৬ মাসের মাথায় সাদিয়া বাচ্চা প্রসব করেছেন। একসঙ্গে পাঁচ বাচ্চা প্রসবে অনেক ঝুঁকি ছিল। তবে মা সুস্থ থাকলেও ওজন কম হওয়ায় ঝুঁকিতে রয়েছে বাচ্চাগুলো।সাদিয়ার ননদ রাবেয়া বলেন, সোমবার রাত ১০টায় হাসপাতালে আসি। ৬ মাস ১০ দিনের মাথায় নরমাল ডেলিভারিতে বাচ্চাগুলোর জন্ম হয়েছে। আমার ভাবি সুস্থ আছেন। আমরা খুবই খুশি।

 

শিশুদের বাবা সোহেল রানা বলেন, ২০১৬ সালের ৩০ জুলাই সাদিয়া খাতুনকে বিয়ে করি। পাঁচ বছর পর আমাদের একসঙ্গে পাঁচ সন্তান হলো। আমরা খুবই খুশি। আমার স্ত্রী সুস্থ আছে, বাচ্চারা শিশু ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন।

 

কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালের চিকিৎসক শাহীন আক্তার সুমন বলেন, বাচ্চাদের সুস্থ করে তোলার চেষ্টা চলছে। তবে ঝুঁকি থেকেই যাচ্ছে। তাদের ওজন কম হওয়ায় উন্নত চিকিৎসার জন্য দ্রুত ঢাকা মেডিকেল কলেজের শিশু বিভাগে অথবা শিশু হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। বাচ্চাগুলোর ওজন ৫০০ থেকে ৬০০ গ্রাম। তবে মা সুস্থ রয়েছেন।

 

-খবর প্রতিদিন / সি.বা 


আরও খবর



নৌকা পরাজিত স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান হলো তৃতীয় লিঙ্গের ঋতু!

প্রকাশিত:Sunday ২৮ November ২০২১ | হালনাগাদ:Tuesday ০৭ December ২০২১ | ২৮২জন দেখেছেন
ডেস্ক এডিটর

Image


 

 

ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ উপজেলার ৬নম্বর ত্রিলোচনপুর ইউনিয়ন নির্বাচনে আনারস প্রতীকের তৃতীয় লিঙ্গের স্বতন্ত্র প্রার্থী নজরুল ইসলাম ঋতু জয় লাভ করেছেন।

 

রবিবার ইউপি নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে বড় ব্যবধানে জয়ী হয়েছেন নজরুল ইসলাম ঋতু। নির্বাচনে তিনি নৌকা প্রতীকের নজরুল ইসলাম ছানা ও হাতপাখা প্রতীকের মাহবুবুর রহমানকে পরাজিত করেছেন।

 

উপজেলা নির্বাচন কমিশনের ঘোষিত ফলে জানা যায়, নজরুল ইসলাম ঋতু ৯ হাজার ৫৩৮ ভোট পেয়ে বিজয়ী হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী নৌকা প্রতীকের নজরুল ইসলাম ছানা পেয়েছেন ৪ হাজার ৪০৪ ভোট। বিজয়ী চেয়ারম্যান ঋতু উপজেলার ত্রিলোচনপুর ইউনিয়নের দাদপুর গ্রামের মৃত আব্দুল কাদেরের সন্তান।

 

জয়ের পর তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়া সাংবাদিকদের ঋতু বলেন, এ জয় ত্রিলোচনপুর ইউনিয়নবাসীর। প্রতিটি মানুষের কাছে আমি ঋণী। কাজের মাধ্যমে মানুষের ঋণ শোধ করার চেষ্টা করব।

 

-খবর প্রতিদিন/ সি.বা 

নিউজ ট্যাগ: ইউনিয়ন নির্বাচন

আরও খবর



তৃতীয় ধাপে ইউনিয়ন নির্বাচনের ভোটগ্রহণ শেষ, চলছে গণনা

প্রকাশিত:Sunday ২৮ November ২০২১ | হালনাগাদ:Wednesday ০৮ December ২০২১ | ১৫৬জন দেখেছেন
ডেস্ক এডিটর

Image


 

দেশের ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনের তৃতীয় ধাপে এবং ১০ পৌরসভায় ভোটগ্রহণ সম্পন্ন হয়েছে। এখন চলছে ভোট গণনা।

তৃতীয় ধাপের এ ভোটগ্রহণ রোববার সকাল ৮টায় শুরু হয়ে বিরতিহীনভাবে চলে বিকেল ৪টা পর্যন্ত। এবার ৩৩টি ইউপিতে ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিন (ইভিএম), বাকিগুলোতে ব্যালট পেপারের মাধ্যমে ভোটগ্রহণ করা হয়েছে।

সুষ্ঠুভাবে ভোটগ্রহণ উপলক্ষে সতর্ক অবস্থায় ছিল আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী। এছাড়া প্রতিটি ইউপিতে জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট দায়িত্ব পালন করছেন।

সারাদেশে তৃতীয় ধাপে ইউপি নির্বাচনে ১০১ জন চেয়ারম্যান বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন। চেয়ারম্যান ছাড়াও সাধারণ সদস্য পদে ৩৩৭ জন ও সংরক্ষিত নারী সদস্য পদে ১৩২ প্রার্থী বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন।

ইসি সূত্রে জানা যায়, তৃতীয় ধাপের নির্বাচনে মোট ভোটার সংখ্যা ২ কোটি ১ লাখ ৪৯ হাজার ২৭৮ জন। এর মধ্যে পুরুষ ভোটার ১ কোটি ২ লাখ ১৫ হাজার ৪২৩ জন, মহিলা ভোটার ৯৯ লাখ ৩২ হাজার ৫৩৮ জন এবং হিজড়া ভোটার ১৯ জন। এই ধাপের নির্বাচনে ভোটকেন্দ্রের সংখ্যা ১০ হাজার ১৫৯টি এবং ভোটকক্ষের সংখ্যা ৬১টি হাজার ৮৩০টি।

-খবর প্রতিদিন/ সি.বা 


আরও খবর



বাদী হলেন আসামী জালিয়াতি মামলায় যাত্রাবাড়ীর রিপন কারাগারে

প্রকাশিত:Tuesday ০৭ December ২০২১ | হালনাগাদ:Wednesday ০৮ December ২০২১ | ৩৭জন দেখেছেন
Image


নিজস্ব প্রতিবেদক

জাল কাগজপত্র দিয়ে দোকানের মালিকানা দাবি করে ফেঁসে গেলেন বাদী নিজেই। আদালত স্বাক্ষর জাল করার অভিযোগে বাদী সেরা উদ্দিন রিপনকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন। গতকাল মঙ্গলবার ঢাকার সিএমএম আদালতে এ ঘটনা ঘটে।


মামলা সূত্রে জানা যায়, রাজধানীর যাত্রাবাড়ীর দনিয়া এলাকায় শরীফ টাওয়ারের একটি দোকানের মালিকানা দাবি করে ওই টাওয়ারের মালিক এম এ আজীম শরীফের বিরুদ্ধে মামলা করেন দনিয়া এলাকার সন্ত্রাসী, চাঁদাবাজ ও দখলদার সেরা উদ্দিন রিপন। মামলার আরজিতে তিনি শরীফ টাওয়ারের দোকানের মালিকানা দাবি করে তিণশ’ টাকার স্ট্যাম্পে লিখিত একটি চুক্তিপত্র আদালতে দাখিল করেন। আদালত মালিকের স্বাক্ষর পরীক্ষার জন্য সিআইডির কাছে পাঠায়।


ল্যাবে সেই স্বাক্ষর জাল বলে প্রমানিত হয়। গতকাল সেই প্রতিবেদন আদালতে উত্থাপিত হলে আদালত বাদী সেরা উদ্দিন রিপনকে জেল হাজতে পাঠানোর আদেশ দেন। সিআইডির প্রতিবেদনে বলা হয়, চুক্তিপত্রে শরীফ টাওয়ারের মালিক এম এ আজীম শরীফের স্বাক্ষরটি ‘স্ক্যানকৃত জাল’।আদালত সূত্রে

জানা যায়, দনিয়া এলাকার চিহ্নিত সন্ত্রাসী সেরা উদ্দিন রিপনের বিরুদ্ধে বেশ কয়েকটি জাল জালিয়াতির মামলা রয়েছে। এর মধ্যে চেক ডিজঅনার মামলা নং ১৪০০০/২০১৮ইং এবং জাল জালিয়াতির মামলা নং ১৬৪/২০১৯ইং উল্লেখযোগ্য।


স্থানীয় সূত্র জানায়, এক সময়ের শিবিরের ক্যাডার সেরা উদ্দিন রিপনের বিরুদ্ধে কদমতলী ও যাত্রাবাড়ী থানায় চাঁদাবাজি, দখল ও হুমকী প্রদান ও ব্ল্যাক মেইলের অভিযোগে বহু মামলা ও জিডি রয়েছে। এর মধ্যে রয়েছেÑকদমতলী থানায় জিডি নং ২৪০, তাং ০৪/০৭/ ১৭, জিডি নং ১৮৫২, তাং ২৯/১২/১৬, জিডি নং ১২৭৬, তাং ২২/০৭/১৬, জিডি নং ১৩৮৭, তাং ২৪/০৭/ ১৭, ডিসি ওয়ারী বরাবর আবেদন স্মারক নং ২৩০৫/ডিসিওয়ারী, তাং ১৮/০৬/১৭, যাত্রাবাড়ী থানায় জিডি নং ১০০৬, তাং ১৩/৩/১৮, যাত্রাবাড়ী থানার প্রসিকিউশন স্মারক নং ১৯০৬, তাং ০৩/০৪/১৮।উল্লেখযোগ্য মামলা নং ৭৫, তাং ২৮/০৫/১৭ ধারা ৩৮৫, সিআর মামলানং ৮৬, তাং ২৮/০৫/১৭, ২০ লাখ টাকার চেক ডিজঅনারের মামলা, সিএম মামলা নং ২৫/ সিআর মো: নং ৭০/২০১৮, তাং ১৪/০১/১৮।


পুলিশ প্রশাসনকে ম্যানেজ করতে সিদ্ধহস্ত রিপন শিবির থেকে এখন যুবলীগের নেতা। তার অত্যাচারে এলাকার বহু মানুষ অতিষ্ঠ। জাল কাগজপত্র তৈরী করে রিপন সন্ত্রাসী বাহিনী নিয়ে দিনে দুপুরে সে মানুষের ফ্ল্যাট, বাড়ি, দোকান দখল করে আসছিল। তার অপকর্মে কেউ বাধা দিলে সে থানা পুলিশকে ব্যবহার করে মিথ্যা মামলা ও জিডি করে মানুষকে হয়রানি করতো।


গত ৭ অক্টোবর সে কদমতলী থানার এসআই কাছেদকে ম্যানেজ করে মিথ্যা অভিযোগে একজন সিনিয়র ক্রাইম রিপোর্টারের বিরুদ্ধে জিডি করে (নং ৪৫০)। এসআই কাছেদ কোন যাচাই ছাড়াই সেই জিডিটি আদালতে পাঠায়। 

এ নিয়ে ক্রাইম রিপোর্টার্স এসোসিয়েশনের নেতারা ক্ষোভ প্রকাশ করেন। উল্লেখ্য, এর আগেও চাঁদাবাজি মামলায় রিপন বেশ কয়েকদিন জেল হাজতে ছিল।

-খবর প্রতিদিন/ সি.বা 


আরও খবর



দলীয় মনোনয়ন পেয়েও সরে দাড়ালেন চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী বর্তমান চেয়ারম্যান বাহালুল

কুমিল্লায় নৌকা পেয়েও সরে দাড়ালেন বাহালুল, প্রাথমিক সদস্য না হয়েও মনোনীত নূরুল!

প্রকাশিত:Sunday ২৮ November ২০২১ | হালনাগাদ:Tuesday ০৭ December ২০২১ | ১৬৬জন দেখেছেন
Image


মাহফুজ বাবু :

 

কুমিল্লায় চতুর্থ ধাপের ইউপি নির্বাচনে দলীয় মনোনয়ন পেয়েও সরে দাড়ালেন চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী বর্তমান চেয়ারম্যান বাহালুল, অপর দিকে স্থানীয় আওয়ামী লীগের সাধারণ সদস্য পদ না থাকলেও দলীয় ভাবে মনোনীত হয়েছেন সিআইপি নূরুল ইসলাম।

 

আদর্শ সদর উপজেলার পাঁচথুবি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগ মনোনীত নৌকা প্রতিকের প্রার্থী ইকবাল হোসেন বাহালুল নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়িয়েন। আসন্ন নির্বাচনে তিনি অংশ নেবেন না বলেও ঘোষণা দিয়েছেন।

 

মনোনীত হওয়ার পর এ নিয়ে চেয়ারম্যান বাহালুল তার ব্যক্তিগত ফেসবুক আইডিতে ২৪ নভেম্বর একটি স্টাটাস দেন এতে তিনি লেখেন আল্লাহ মেহেরবানিতে আমি দলীয় মনোনায়ন পেয়েছি তবে সংগঠন ও এম পি মহোদয় সিদ্ধান্তের বাহিরে কিছু করব না । আমি সবার কাছে ক্ষমা প্রার্থী

পরদিন ২৫ নভেম্বর আরেকটি পোস্ট করেন তার ফেসবুক আইডিতে তাতে লেখা নৌকা পেয়েছি, নৌকা উৎসর্গ করেছি, নেতার জন্য। এইটা তেমন বেশি কি নেতা ডেকে এনে চেযারম্যান করেছিল, না হলে হয়ত হতে পারতাম না।সকলে মেনে নাও নৌকার বিজয় হয়েছে,আমাদের হাতে। জয় বাংলা।

 

গত ২৫ নভেম্বর বৃহস্পতিবার মনোনয়নপত্র জমা দেয়ার শেষ দিন হলেও তিনি তার মনোনয়ন পত্র জমা দেননি। এতে ঐ ইউনিয়নে একক প্রার্থী হিসেবে বিনা ভােটে নির্বাচিত হতে যাচ্ছেন হাসান রফি রাজু। তিনি পাঁচথুবি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক। জানা যায়, সদর উপজেলার ছয়টি ইউনিয়ন পরিষদে (ইউপি) দলীয় কাউন্সিলের মাধ্যমে মনােনীত প্রার্থীদের তালিকা কেন্দ্রে পাঠায় উপজেলা আওয়ামী লীগ। কিন্তু সে তালিকায় ছিলেন না বর্তমান চেয়ারম্যান ইকবাল হোসেন বাহালুল। তার বদলে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হাসান রফি রাজুর নাম কেন্দ্রে পাঠানো হয়। তবে তাকে মনোনয়ন না দিয়ে ইকবাল হোসেন বাহালুলকে মনোনয়ন দেওয়া হয়।

 

 এ বিষয়ে আওয়ামী লীগের মনােনয়ন পাওয়া ইকবাল হোসেন বাহালুল বলেন, দল আমাকে মনোনয়ন দিয়েছে, আমি নৌকা প্রতীক পেয়েছি। তারপরও নির্বাচন করব না। দলীয় শৃঙ্খলা বজায় রাখা সহ আমার নেতা ও কর্মীরদের স্বার্থে এ সিদ্ধান্ত নিয়েছি।

 মনোনয়ন পত্র জমা দেওয়া হাসান রফি রাজু বলেন, তৃণমূল আওয়ামী লীগ সম্মেলনের মাধ্যমে আমাকে নির্বাচিত করেছে তৃণমূল আওয়ামী লীগ যেহেতু আমাকে নির্বাচিত করেছে। তাই আমি স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে নির্বাচন করব। শুনেছি, নৌকা প্রতীকের প্রার্থী নির্বাচন করবেন না। তাই আমি ছাড়া এই ইউপিতে চেয়ারম্যান পদে আর কোনো প্রার্থী নেই।

 

এদিকে উপজেলা আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে কেন্দ্রে পাঠানো ছয়জনের মধ্যে দলের মনােনয়ন পাননি তিন বারের নির্বাচিত ১নং কালিরবাজার ইউপি'র চেয়ারম্যান আলহাজ্ব সেকান্দর আলী। এখানে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন পেয়েছে নুরুল ইসলাম। স্থানীয় আওয়ামী লীগের সদস্য পদ না থাকলেও গত বছর আওয়ামী লীগে যোগদানকারী প্রবাসী ব্যবসায়ী ও সিআইপি তিনি।

 

এবিষয়ে ১নং কালির বাজার ইউনিয়নের তিন বারের নির্বাচিত চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী আলহাজ্ব সেকান্দর আলী বলেন, কিছুদিন আগে ইউনিয়ন কাউন্সিলিংয়ে নেতৃবৃন্দের ভোটে আমি ৭০ভোট পাই, বিপরিতে নূরুল ইসলাম পান ১৬ ভোট। স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দ এবং এলাকাবাসীর সেবায় দীর্ঘ ১৫ বছর নিজেকে উৎসর্গ করেছি। উন্নয়ন করেছি প্রতিটি গ্রামে। তবে কি কারনে এমনটা হয়েছে জানা নেই। দলীয় মনোনয়ন না পাওয়ায় নেতাকর্মীরা কিছুটা অবাক হয়েছেন অনেকে। তবে ইউনিয়নবাসী ও স্থানীয় নেতাকর্মীদের অনুরোধ রক্ষায় আমি অবশ্যই নির্বাচনে অংশ গ্রহণ করবো। এবং আশাকরি সুষ্ঠ ভোটের মাধ্যমে বিশাল ব্যবধানের জয়লাভ করবো।

 

এদিকে দলীয় মনোনয়ন পেলেও এখনো ভোটের মাঠে ততটা সরব দেখা যায়নি আওয়ামী লীগ মনোনীত চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী নূরুল ইসলামকে। মুঠোফোনে একাধিকবার যোগাযোগ করেও পাওয়া যয়নি তাকে। তবে তার নেতাকর্মীদের কয়েকজন জানান কৌশলে আগাচ্ছেন তিনি। নিরবে ভোটারদের মাঝে প্রচারণা চালাচ্ছেন তারা। আগামী ৫তারিখ প্রতিক বরাদ্দের পর আনুষ্ঠানিক ভাবে ভোটের মাঠে নামবেন তারা। 

 

আদর্শ সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি কাজী আবুল বাশার এ বিষয়ে বলেন, আমরা দলীয় প্রার্থী নির্বাচনে ছয়টি ইউপিতে সম্মেলন করেছি। সেখান থেকে নির্বাচিত ছয় জনের তালিকা কেন্দ্রে পাঠিয়েছি। তাদের মধ্যে চারজন নৌকা প্রতীক পেয়েছেন। দলীয় শৃঙ্খলা বজায় রাখতে বাকি দুজনের বিষয়ে সমন্বয়ের চেষ্টা করছি।

 

গত ২৬ নভেম্বর বৃহস্পতিবার সদর উপজেলা নির্বাচন কার্যালয়ে মনােনয়নপত্র জমা দিয়েছেন মোট ১৫ জন। জগন্নাথপুর ইউপিতে আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী মামুনুর রশিদ, জসিম উদ্দিন তালুকদার, আবু বক্কর সিদ্দিক। দুর্গাপুর উত্তর ইউপিতে আওয়ামী লীগের মনােনীত প্রার্থী আবুল কালাম আজাদ, এয়াকুব আলী, দুর্গাপুর দক্ষিণ ইউপিতে আওয়ামী লীগের প্রার্থী আমিনুল হক, হুমায়ূন কবির, আমড়াতলী ইউপিতে আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী কাজী মোজাম্মেল হক, কাজী নজরুল ইসলাম, রুবেল আহমেদ, কালিরবাজার ইউপিতে আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী নূরুল ইসলাম ও সেকান্দর আলী, আব্দুল হক, কামাল হোসেনএবং পাঁচথুবি ইউপিতে হাসান রফি রাজু। আগামী ২৬ ডিসেম্বর চতুর্থ ধাপে এসকল ইউপিতে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।

-খবর প্রতিদিন/ সি.বা 

নিউজ ট্যাগ: ইউপি নির্বাচন

আরও খবর



আলেম-ওলামাদের প্রতি প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা-ভক্তি রয়েছে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

প্রকাশিত:Saturday ২৭ November ২০২১ | হালনাগাদ:Tuesday ০৭ December ২০২১ | ১১১জন দেখেছেন
ডেস্ক এডিটর

Image


আলেম-ওলামাদের প্রতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার যথেষ্ট শ্রদ্ধা-ভক্তি রয়েছে বলে জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল।শনিবার হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশ আয়োজিত ওলামা-মাশায়েখ সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা জানান।

আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেন, প্রধানমন্ত্রী হেফাজতে ইসলাম নিয়ে ভাবেন। একজন ধার্মিক মুসলিম হিসেবে শেখ হাসিনা রাষ্ট্র পরিচালনা করছেন। তিনি সকালে পবিত্র কোরআন তিলাওয়াত করে কাজ শুরু করেন। আলেম-ওলামাদের প্রতি তার যথেষ্ট শ্রদ্ধা-ভক্তি রয়েছে। আপনাদের মতো প্রধানমন্ত্রী শফী সাহেবকে (শাহ আহমদ শফী) অত্যন্ত ভালোবাসতেন।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, আপনারা বলেছেন হেফাজত অরাজনৈতিক দল, হেফাজত রাজনীতি করে না, নির্বাচনে যায় না। কিন্তু বাইরে থেকে দুষ্কৃতিকারীরা এসে আপনাদের অপবাদ অথবা কুমন্ত্রণা দিচ্ছে। সেখানে আপনারা ভুল করছেন অথবা ভুল করে ফেলেছেন।

মন্ত্রী আরো বলেন, আমরা বারবার বলতে চাই আপনারা আধ্যাত্মিক লাইনের চর্চা করেন, কোরআন-সুন্নাহ অনুযায়ী চলেন। আপনারা যেহেতু অরাজনৈতিক প্রতিষ্ঠান, সেহেতু কেন আপনাদের মাঝে বহিরাগতদের অনুপ্রবেশ ঘটে? আপনাদের আরো সাবধান হওয়া উচিত।

সম্মেলনে আরো বক্তব্য রাখেন- হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের আমীর শাহ মুহিববুল্লাহ বাবুনগরী, মহাসচিব নুরুল ইসলাম।

এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- আতাউল্লাহ হাফেজ্জি, অধ্যক্ষ মিজানুর রহমান, সাজিদুর রহমান, ইয়াহইয়া, তাজুল ইসলাম, আব্দুল আওয়াল প্রমুখ।

 

-খবর প্রতিদিন /সি.বা 


আরও খবর